alt

অর্থ-বাণিজ্য

তুরস্ক সফর

বিনিয়োগ বাড়াতে বাংলাদেশকে আরও পরিচিত করার আহ্বান ঢাকা চেম্বারের

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক : শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২

সম্প্রতি তুরস্ক সফরে ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির (ডিসিসিআই) প্রতিনিধি দল বিনিয়োগ আকর্ষণে বাংলাদেশকে আরও পরিচিতি করার আহ্বান জানান। প্রতিনিধিদলের সঙ্গে ফরেন ইকোনোমিক রিলেশন্স বোর্ড অফ টার্কি (ডেইক) আয়োজিত ‘তুরস্ক এবং বাংলাদেশের মধ্যকার বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্ভাবনা’ শীর্ষক সেমিনার সম্প্রতি ইস্তাম্বুলের স্থানীয় একটি হোটেলে অনুষ্ঠিত হয়। এই সেমিনারে তারা এসব কথা বলেন। বাংলাদেশ তুরস্ক-এ মধ্যকার বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্ভাবনা বৃদ্ধিতে ডিসিসিআই সভাপতি রিজওয়ান রাহমানের নেতৃত্বে ৮৬ সদস্য বিশিষ্ট একটি প্রতিনিধিদলর বর্তমানে তুরস্ক সফর করছে।

অনুষ্ঠানের স্বাগত বক্তব্যে ফরেন ইকোনোমিক রিলেশন্স বোর্ড অফ টার্কি (ডেইক)-এর চেয়ারম্যান অনুর ওজডেন বলেন, ‘গত কয়েক দশক যাবত বাংলাদেশের বিকাশমান অর্থনীতি দেশটিকে দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম সম্ভাবনাময় দেশে পরিণত করেছে এবং তুরস্কের উদ্যোক্তারা বাংলাদেশে নিজেদের ব্যবসা-বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রসারণে অত্যন্ত আগ্রহী।’ দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য সম্প্রসারণে তিনি বেসরকারিখাতের প্রতিনিধিরা মধ্যকার যোগাযোগ আরও বৃদ্ধির আহ্বান জানান।

অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি অংশ নিয়ে বাংলাদেশে নিযুক্ত তুরষ্কের রাষ্ট্রদূত মোস্তফা ওসমান তুরান বলেন, ‘ব্যবসা ও বিনিয়াগের জন্য বাংলাদেশ অত্যন্ত সম্ভাবনাময় এবং এখানকার উদ্যমী উদ্যোক্তাদের নিরলস প্রয়াস দেশটিকে ক্রমশ উন্নতির দিকে ধাবিত করছে। সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশ বিশেষ করে তথ্য-প্রযুক্তি, ঔষধ, চামড়া, কৃষি প্রভৃতি খাতে বেশ অগ্রগতি করেছে এবং বাংলাদেশের অভ্যন্তরীন বাজারও বেশ বৃহৎ, যা বিবেচনায় নিয়ে তুরষ্কের উদ্যোক্তারা এখানে বিনিয়োগে এগিয়ে আসতে পারে। গত অর্থবছরে দুইদেশের বাণিজ্যের পরিমাণ ছিল ১ দশমিক ৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলার এবং সামনের দিনগুলোতে ব্যবসা ও বিনিয়োগের পরিমাণ আরও বৃদ্ধি পাবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘তুরষ্কের বেশ কয়েকটি প্রতিষ্ঠান ইতোমধ্যে বাংলাদেশে বিনিয়োগ করেছে। আরও প্রতিষ্ঠান সেখানে বিনিয়োগে আগ্রহ দেখাচ্ছে। বাংলাদেশে তুরষ্কের বিনিয়োগ আরও বৃদ্ধিতে অবকাঠামোর উন্নয়ন, ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান নিবন্ধন প্রক্রিয়া সহজতরকরণ ও নীতিমালার সংষ্কারের ওপর জোর দিতে হবে।’

তুরষ্কে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মাসুদ মান্নান বলেন, ‘বাংলাদেশ ও তুরষ্কের মধ্যকার দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ২ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে উন্নীতকরণে যথেষ্ট সম্ভাবনা রয়েছে। তবে এক্ষেত্রে দুইদেশের বেসরকারিখাতের উদ্যোক্তাদের যোগাযোগ আরও বৃদ্ধি করতে হবে। বিদেশি বিনিয়োগ আকর্ষণে বাংলাদেশ সরকার ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ স্থাপন সহ প্রণোদনা সুবিধা প্রদান করছে, যা গ্রহণ করে তুরষ্কের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় খাত সমূহে বিনিয়োগে এগিয়ে আসতে পারে।’

ঢাকা চেম্বারের সভাপতি রিজওয়ান রাহমান বলেন, ‘কোভিডকালীন সময়ে বৈশি^ক অর্থনীতিতে নেতিবাচক প্রবণতা পরিলক্ষিত হলেও বাংলাদেশের উদ্যোক্তাদের সাহসী উদ্যোক্তাদের নিরলস পরিশ্রম ও সাহসিকতার কারণে আমাদের অর্থনীতির কার্যক্রম চলমান ছিল। পর্যটন খাতে তুরষ্কের দক্ষতা ও অভিজ্ঞতা অত্যন্ত বেশি এবং বাংলাদেশের পর্যটন খাতের অবকাঠামো উন্নয়নে তুরষ্কের উদ্যোক্তাদের বিনিয়োগে এগিয়ে আসতে পারে।’

দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রসারণে তিনি বেসরকারিখাতের প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে ‘জয়েন্ট ইকোনোমিক কমিশন’ গঠনের প্রস্তাব করেন। ডিসিসিআই সভাপতি উল্লেখ করেন, ‘সুদীর্ঘকাল হতে বাংলাদেশ গুণগত মানের পাট উৎপাদন করে আসছে।’ তুরষ্কের কার্পেট খাতের উদ্যোক্তাদেরকে বাংলাদেশে উৎপাদিত পণ্য আমদানির আহ্বান জানান।

বাংলাদেশে বৈদেশিক বিনিয়োগকারী দেশসমূহের মধ্যে তুরস্ক ২৯তম বৃহত্তম দেশ যে দেশের উদ্যোক্তারা বাংলাদেশে ইতোমধ্যে ৩০.৫১ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের বিনিয়োগ করেছে। তিনি উল্লেখ করেন, ‘ডি-৮ ভুক্ত দেশসমূহের মধ্যে কার্যকর অর্থনৈতিক যোগাযোগ স্থাপনে বাংলাদেশ ও তুরস্ক যৌথভাবে উদ্যোগ গ্রহণ করতে পারে। তিনি বাংলাদেশের শিল্পখাতের আধুনিকায়নে তুরস্কের প্রযুক্তি সহায়তা প্রদান, এসএমই খাতের সক্ষমতা বৃদ্ধি, যৌথ গবেষণা কার্যক্রম এবং এগ্রো ভেলু চেইনের উন্নয়নে তুরস্ককে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। পরিশেষে তিনি তুরস্কের বিনিয়োগকারিদের বাংলাদেশে আরও বেশি হারে বিনিয়োগের আহ্বান জানান এবং বাংলাদেশ থেকে আরও অধিক পণ্য আমদানি করার অনুরোধ করেন।

সেমিনার শেষে ঢাকা চেম্বারের প্রতিনিধিদের সঙ্গে ফরেন ইকোনোমিক রিলেশন্স বোর্ড অফ টার্কি (ডেইক)-এর প্রায় ১১০টির বেশি সদস্য প্রতিষ্ঠানের মধ্যকার বিটুবি ম্যাচ-মেকিং অনুষ্ঠিত হয় যেখানে দুইদেশের উদ্যোক্তারা বিনিয়োগ সম্ভাবনা, বাণিজ্য সম্প্রসারণ নিয়ে আলোচনা করেন।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে ইস্তানবুল গেডিক বিশ্ববিদ্যালয় এবং ঢাকা চেম্বারের সঙ্গে সহযোগিতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়, যেখানে ডিসিসিআই’র সভাপতি রিজওয়ান রাহমান এবং গেডিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রাষ্টি বোর্ডের সভাপতি হুলিয়া গেডিক নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে সহযোগিতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন।

ছবি

বিনিয়োগ প্রতিযোগিতা ক্যাপিটালাইজার ২০২২ এর বিজয়ী দলের নাম ঘোষণা

ছবি

বিমানের নতুন এমডি শফিউল আজিম

চাল আমদানিতে শুল্ক সুবিধার মেয়াদ বাড়লো আরও তিন মাস

ওয়ালটন নিয়ে এলো ৮ জিবি র‌্যামের ‘প্রিমো আর টেন’

ছবি

শিল্প আমদানি সহজ করতে ৫ হাজার কোটি টাকার ‘গ্রিন ট্রান্সফরমেশন ফান্ড’

ডিএসইর লেনদেন ফের তিনশ’ কোটি টাকার নিচে

ছবি

ই-রিটার্ন জমার সংখ্যা সন্তোষজনক নয়

ছবি

১০৭ টাকার রেমিট্যান্সের দর মানছে না কয়েকটি ব্যাংক

ছবি

দুই দিনে ৫টি ইসলামী ব্যাংক টাকা ধার নিয়েছে ৫ হাজার ২৫০ কোটি টাকা

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রের বাজারে বাংলাদেশি পণ্যের অধিকতর শুল্কমুক্ত প্রবেশাধিকারের আহবান

কৃষিঋণ : লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে পিছিয়ে, তবে গতবারের চেয়ে বেশি

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রে পোশাক রপ্তানি ৫১ শতাংশ বেড়েছে

২০ কোটি ডলার ঋণ দিলো এডিবি

সূচক বাড়লেও লেনদেন তিনশ’ কোটি টাকার নিচে

ইসলামী ব্যাংকগুলোকে তারল্য সুবিধা দেবে কেন্দ্রীয় ব্যাংক

পরিবেশবান্ধব শিল্পায়নে কাজ করছে বেসরকারি খাত : এফবিসিসিআই

ছবি

বেনামি ঋণ আর অর্থ পাচারে খাদের কিনারে ব্যাংকিং খাত: টিআইবি

ছবি

নভেম্বরে মূল্যস্ফীতির হার কিছুটা কমে ৮.৮৫ শতাংশ: পরিকল্পনামন্ত্রী

ছবি

ভারত থেকে ২২১১ টন পেঁয়াজ আমদানি করেছে টিসিবি

ছবি

চিনির লুকোচুরি, বেশি দামে কোথাও কোথাও পাওয়া যায়

ছবি

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নতুন মুখপাত্র মেজবাউল হক

ছবি

রমজান মাসে পণ্যের যৌক্তিক মূল্য নির্ধারণ করবেন বাণিজ্যমন্ত্রী

দেড় বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগের প্রত্যাশা স্পেশাল ইকনমিক জোনে

ছবি

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের নতুন মুখপাত্র মেজবাউল হক

বেপজায় চীনা কোম্পানির ৪০ মিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ

সূচকের সঙ্গে লেনদেনও তলানিতে

ছবি

স্বর্ণের দামে রেকর্ড, ভরি ছাড়ালো ৮৭ হাজার

বস্ত্রখাতে অবদান রাখায় পুরস্কার পাচ্ছে ১০ প্রতিষ্ঠান

কোম্পানিকে টিকে থাকতে দরকার গুড ম্যানেজমেন্ট : বিএসইসি চেয়ারম্যান

বস্ত্র খাতে পুরস্কার পাচ্ছে ১০ প্রতিষ্ঠান

ছবি

‘বস্ত্রখাতে কর্মরত ৫০ লাখের মধ্যে ৮০ ভাগই নারী’

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রে পোশাক রফতানি বেড়েছে ৫১ শতাংশ

ছবি

তিন ব্যাংকের ঋণরে অভিযোগ তদন্ত করে প্রতিবেদন দেওয়ার নির্দেশ হাইকোর্টের

ছবি

আতঙ্কে ব্যাংক থেকে ৫০ হাজার কোটি টাকা তুলেছেন গ্রাহকরা : মুখ্য সচিব

ছবি

দশ মাসে রেমিট্যান্স কমেছে ৮৫ কোটি ৬৭ লাখ ডলার

খাতভিত্তিক লেনদেনের শীর্ষে আইটি খাত

tab

অর্থ-বাণিজ্য

তুরস্ক সফর

বিনিয়োগ বাড়াতে বাংলাদেশকে আরও পরিচিত করার আহ্বান ঢাকা চেম্বারের

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

শুক্রবার, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২২

সম্প্রতি তুরস্ক সফরে ঢাকা চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির (ডিসিসিআই) প্রতিনিধি দল বিনিয়োগ আকর্ষণে বাংলাদেশকে আরও পরিচিতি করার আহ্বান জানান। প্রতিনিধিদলের সঙ্গে ফরেন ইকোনোমিক রিলেশন্স বোর্ড অফ টার্কি (ডেইক) আয়োজিত ‘তুরস্ক এবং বাংলাদেশের মধ্যকার বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্ভাবনা’ শীর্ষক সেমিনার সম্প্রতি ইস্তাম্বুলের স্থানীয় একটি হোটেলে অনুষ্ঠিত হয়। এই সেমিনারে তারা এসব কথা বলেন। বাংলাদেশ তুরস্ক-এ মধ্যকার বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্ভাবনা বৃদ্ধিতে ডিসিসিআই সভাপতি রিজওয়ান রাহমানের নেতৃত্বে ৮৬ সদস্য বিশিষ্ট একটি প্রতিনিধিদলর বর্তমানে তুরস্ক সফর করছে।

অনুষ্ঠানের স্বাগত বক্তব্যে ফরেন ইকোনোমিক রিলেশন্স বোর্ড অফ টার্কি (ডেইক)-এর চেয়ারম্যান অনুর ওজডেন বলেন, ‘গত কয়েক দশক যাবত বাংলাদেশের বিকাশমান অর্থনীতি দেশটিকে দক্ষিণ এশিয়ার অন্যতম সম্ভাবনাময় দেশে পরিণত করেছে এবং তুরস্কের উদ্যোক্তারা বাংলাদেশে নিজেদের ব্যবসা-বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রসারণে অত্যন্ত আগ্রহী।’ দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য সম্প্রসারণে তিনি বেসরকারিখাতের প্রতিনিধিরা মধ্যকার যোগাযোগ আরও বৃদ্ধির আহ্বান জানান।

অনুষ্ঠানে ভার্চুয়ালি অংশ নিয়ে বাংলাদেশে নিযুক্ত তুরষ্কের রাষ্ট্রদূত মোস্তফা ওসমান তুরান বলেন, ‘ব্যবসা ও বিনিয়াগের জন্য বাংলাদেশ অত্যন্ত সম্ভাবনাময় এবং এখানকার উদ্যমী উদ্যোক্তাদের নিরলস প্রয়াস দেশটিকে ক্রমশ উন্নতির দিকে ধাবিত করছে। সাম্প্রতিক সময়ে বাংলাদেশ বিশেষ করে তথ্য-প্রযুক্তি, ঔষধ, চামড়া, কৃষি প্রভৃতি খাতে বেশ অগ্রগতি করেছে এবং বাংলাদেশের অভ্যন্তরীন বাজারও বেশ বৃহৎ, যা বিবেচনায় নিয়ে তুরষ্কের উদ্যোক্তারা এখানে বিনিয়োগে এগিয়ে আসতে পারে। গত অর্থবছরে দুইদেশের বাণিজ্যের পরিমাণ ছিল ১ দশমিক ৩ বিলিয়ন মার্কিন ডলার এবং সামনের দিনগুলোতে ব্যবসা ও বিনিয়োগের পরিমাণ আরও বৃদ্ধি পাবে।’

তিনি আরও বলেন, ‘তুরষ্কের বেশ কয়েকটি প্রতিষ্ঠান ইতোমধ্যে বাংলাদেশে বিনিয়োগ করেছে। আরও প্রতিষ্ঠান সেখানে বিনিয়োগে আগ্রহ দেখাচ্ছে। বাংলাদেশে তুরষ্কের বিনিয়োগ আরও বৃদ্ধিতে অবকাঠামোর উন্নয়ন, ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান নিবন্ধন প্রক্রিয়া সহজতরকরণ ও নীতিমালার সংষ্কারের ওপর জোর দিতে হবে।’

তুরষ্কে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত মাসুদ মান্নান বলেন, ‘বাংলাদেশ ও তুরষ্কের মধ্যকার দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ২ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে উন্নীতকরণে যথেষ্ট সম্ভাবনা রয়েছে। তবে এক্ষেত্রে দুইদেশের বেসরকারিখাতের উদ্যোক্তাদের যোগাযোগ আরও বৃদ্ধি করতে হবে। বিদেশি বিনিয়োগ আকর্ষণে বাংলাদেশ সরকার ‘বিশেষ অর্থনৈতিক অঞ্চল’ স্থাপন সহ প্রণোদনা সুবিধা প্রদান করছে, যা গ্রহণ করে তুরষ্কের বিনিয়োগকারীরা বাংলাদেশের সম্ভাবনাময় খাত সমূহে বিনিয়োগে এগিয়ে আসতে পারে।’

ঢাকা চেম্বারের সভাপতি রিজওয়ান রাহমান বলেন, ‘কোভিডকালীন সময়ে বৈশি^ক অর্থনীতিতে নেতিবাচক প্রবণতা পরিলক্ষিত হলেও বাংলাদেশের উদ্যোক্তাদের সাহসী উদ্যোক্তাদের নিরলস পরিশ্রম ও সাহসিকতার কারণে আমাদের অর্থনীতির কার্যক্রম চলমান ছিল। পর্যটন খাতে তুরষ্কের দক্ষতা ও অভিজ্ঞতা অত্যন্ত বেশি এবং বাংলাদেশের পর্যটন খাতের অবকাঠামো উন্নয়নে তুরষ্কের উদ্যোক্তাদের বিনিয়োগে এগিয়ে আসতে পারে।’

দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্য ও বিনিয়োগ সম্প্রসারণে তিনি বেসরকারিখাতের প্রতিনিধিদের সমন্বয়ে ‘জয়েন্ট ইকোনোমিক কমিশন’ গঠনের প্রস্তাব করেন। ডিসিসিআই সভাপতি উল্লেখ করেন, ‘সুদীর্ঘকাল হতে বাংলাদেশ গুণগত মানের পাট উৎপাদন করে আসছে।’ তুরষ্কের কার্পেট খাতের উদ্যোক্তাদেরকে বাংলাদেশে উৎপাদিত পণ্য আমদানির আহ্বান জানান।

বাংলাদেশে বৈদেশিক বিনিয়োগকারী দেশসমূহের মধ্যে তুরস্ক ২৯তম বৃহত্তম দেশ যে দেশের উদ্যোক্তারা বাংলাদেশে ইতোমধ্যে ৩০.৫১ মিলিয়ন মার্কিন ডলারের বিনিয়োগ করেছে। তিনি উল্লেখ করেন, ‘ডি-৮ ভুক্ত দেশসমূহের মধ্যে কার্যকর অর্থনৈতিক যোগাযোগ স্থাপনে বাংলাদেশ ও তুরস্ক যৌথভাবে উদ্যোগ গ্রহণ করতে পারে। তিনি বাংলাদেশের শিল্পখাতের আধুনিকায়নে তুরস্কের প্রযুক্তি সহায়তা প্রদান, এসএমই খাতের সক্ষমতা বৃদ্ধি, যৌথ গবেষণা কার্যক্রম এবং এগ্রো ভেলু চেইনের উন্নয়নে তুরস্ককে এগিয়ে আসার আহ্বান জানান। পরিশেষে তিনি তুরস্কের বিনিয়োগকারিদের বাংলাদেশে আরও বেশি হারে বিনিয়োগের আহ্বান জানান এবং বাংলাদেশ থেকে আরও অধিক পণ্য আমদানি করার অনুরোধ করেন।

সেমিনার শেষে ঢাকা চেম্বারের প্রতিনিধিদের সঙ্গে ফরেন ইকোনোমিক রিলেশন্স বোর্ড অফ টার্কি (ডেইক)-এর প্রায় ১১০টির বেশি সদস্য প্রতিষ্ঠানের মধ্যকার বিটুবি ম্যাচ-মেকিং অনুষ্ঠিত হয় যেখানে দুইদেশের উদ্যোক্তারা বিনিয়োগ সম্ভাবনা, বাণিজ্য সম্প্রসারণ নিয়ে আলোচনা করেন।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে ইস্তানবুল গেডিক বিশ্ববিদ্যালয় এবং ঢাকা চেম্বারের সঙ্গে সহযোগিতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়, যেখানে ডিসিসিআই’র সভাপতি রিজওয়ান রাহমান এবং গেডিক বিশ্ববিদ্যালয়ের ট্রাষ্টি বোর্ডের সভাপতি হুলিয়া গেডিক নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের পক্ষে সহযোগিতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন।

back to top