alt

আন্তর্জাতিক

কানাডা-যুক্তরাষ্ট্র সীমান্তের বিধিনিষেধ নিয়ে সিদ্ধান্ত শুক্রবার

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : বুধবার, ০৯ জুন ২০২১
image

আগামী শুক্রবার (১১ জুন) কানাডা-যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্ত খোলার বিষয়ে সিদ্ধান্ত আসতে পারে। টিকা গ্রহণকারীরা কীভাবে প্রতিবেশী দেশে সহজে ভ্রমণ করতে পারেন বিধিনিষেধ শিথিলের মাধ্যমে এ নিয়ে পরিকল্পনা করা হচ্ছে বলে জানা গেছে।

করোনার মহামারির কারণে বর্তমানে সীমান্তটি বন্ধ রয়েছে। তবে নাগরিক এবং স্থায়ী বাসিন্দারা কানাডায় প্রবেশের অনুমতি পেয়েছেন।গত মাসে কোভিড-১৯ পরীক্ষা এবং স্ক্রিনিংয়ের মাধ্যমে ভ্রমণ ফের শুরু করার জন্য নির্দেশিকা তৈরি করেছিল দেশটির ফেডারেল প্যানেল।

কানাডা-যুক্তরাষ্ট্র সীমান্ত বন্ধের মেয়াদ আগামী ২১ জুন শেষ হওয়ার কথা রয়েছে। তাই শুক্রবার কী ঘোষণা আসে, সেদিকে সবাই তাকিয়ে আছেন।

এদিকে মঙ্গলবার (৮ জুন) অটোয়ায় একটি সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো বলেছেন, যখন ঘোষণা দেওয়ার কথা রয়েছে, তখন আপনি নিশ্চিত হতে পারেন যে আমরা সেগুলো করব। তবে তিনি পরিষ্কার করে বলে দিয়েছেন যারা পুরোপুরি ভ্যাকসিন পেয়েছেন তারা সর্বপ্রথম ভ্রমণ বিধিনিষেধের সুবিধা পাবেন।

জনগণ যাতে তাদের ভ্যাকসিনের দুটি ডোজ গ্রহণ করে, সেজন্য পুরোপুরি টিকা দেওয়া কানাডিয়ানদের প্রতি নিষেধাজ্ঞাগুলো সহজ করা হবে।

অন্যদিকে অপ্রয়োজনীয় ভ্রমণকে সীমাবদ্ধ করে যুক্তরাষ্ট্র-কানাডার যৌথ উদ্যোগের বিষয়টি পুর্নর্বিবেচনার আহ্বান জানিয়েছে কানাডার পর্যটন ও ব্যবসায়িক সংস্থাগুলো।

বিশিষ্ট কলামিস্ট, উন্নয়ন গবেষক ও সমাজতাত্ত্বিক বিশ্লেষক মো. মাহমুদ হাসান বলেন, দ্রুতগতিতে ভ্যাকসিনেশন কাভারেজ আর কোভিড-১৯ এর স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ ছাড়া অন্যকোনো বিকল্প পথ যে খোলা নেই, দ্রুত কোভিড পরিস্থিতির উন্নতি সে বিষয়টিই প্রমাণ করে। জীবন-জীবিকার উন্নয়ন আর দীর্ঘ শিক্ষা বিরতি সামাজিক ও মনোজাগতিক ক্ষেত্রে যে প্রতিকূল পরিস্থিতির সৃষ্টি করেছে তা থেকে উত্তরণে সঠিক পথেই এগিয়ে যাচ্ছে জাস্টিন ট্রুডোর সরকার।

বিশিষ্ট কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব এবং রিয়েল এস্টেট ব্যবসায়ী কিরন বণিক শংকর করোনাকালীন সময়ে জাস্টিন ট্রুডো সরকারের নেওয়া প্রতিটি পদক্ষেপে প্রশংসা করে বলেন, দেশটির নাগরিকদের সুস্বাস্থ্য ও অর্থনৈতিক অবস্থা স্থিতিশীল রাখতে তার বিকল্প নেই।

২০২০ সালের মার্চ মাস থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সীমান্ত অনাবশ্যক ভ্রমণকারীদের জন্য বন্ধ রাখা হয়েছে। এর ফলে দুই দেশের মধ্যে স্থল ও আকাশপথে যাত্রী চলাচল ব্যাপকভাবে কমে গেছে। এ বিধিনিষেধের বড় ধরনের প্রভাব পড়েছে কানাডার পর্যটন খাতে। সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এয়ারলাইন্সগুলো।

এক হিসাব বলছে, বিধিনিষেধের ফলে গতবছর এ খাত ১ হাজার ৬৫০ কোটি ডলার রাজস্ব হারিয়েছে। এ ক্ষতির কথা চিন্তা করে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সীমান্ত খুলে দেওয়ার ব্যাপারে প্রাথমিক আলোচনা শুরু করেছে ট্রুডো সরকার। যদিও ভ্যাকসিনেশনে যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে এখনও অনেক পিছিয়ে কানাডা।

ছবি

করোনায় বিশ্বে মৃত্যু ৩৯ লাখ ছুঁইছুঁই

ছবি

মালয়েশিয়ায় ১০২ বাংদেশিসহ আটক ৩০৯

ছবি

মুসলিম জনসংখ্যা নিয়ন্ত্রণ করতে চায় আসাম সরকার

ছবি

মিয়ানমার নিয়ে জাতিসংঘের রেজুলেশনে হতাশ বাংলাদেশ

ছবি

সম্পাদকে গ্রেপ্তারের পর অ্যাপল ডেইলির গ্রাহক বেড়েছে চার লাখ

ছবি

ইরানের প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হলেন ইব্রাহিম রায়েসি

ছবি

মায়ানমারের কাছে অস্ত্র বিক্রি বন্ধের আহ্বান জাতিসংঘের

ছবি

বিশ্বে মহামারীর মধ্যেও বাস্তুচ্যুত রেকর্ডসংখ্যক মানুষ: জাতিসংঘ

ছবি

‘ইসরায়েলের প্রতি অকুণ্ঠ সমর্থনের পরও ইহুদিরা আমাকে ভোট দেয়নি’

ছবি

নেপালে ভূমিধস ও বন্যায় ১১ জনের মৃত্যু, নিখোঁজ ২৫

ছবি

যুদ্ধবিরতি ভেঙে গাজায় ফের ইসরায়েলের বিমান হামলা

ছবি

বিশ্বজুড়ে করোনায় মৃত্যু ৪০ লাখ ছাড়িয়ে গেছে: রয়টার্স

ছবি

বঙ্গবন্ধুশেখ মুজিবুর রহমানের ‘কারাগারের রোজনামচা-এর ফরাসি সংস্করণ এর মোড়ক উন্মোচন

ছবি

ভারতে করোনায় মৃত্যু ১৫৮৭, শনাক্ত ৬২ হাজার

ছবি

আরব আমিরাতে বহুতল ভবনে আগুন

ছবি

ভারতে সংক্রমণ বাড়লেও সামান্য কমেছে মৃত্যু

ছবি

বৈঠক ফলপ্রসূ ও গঠনমূলক, বললেন বাইডেন-পুতিন

ছবি

বিশ্বে করোনায় আরও ৯ হাজারের বেশি মৃত্যু

ছবি

দিল্লির এমস হাসপাতালে অগ্নিকাণ্ড

ছবি

শিয়া তরুণের মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করলো সৌদি আবর

ছবি

ভারতে ২৪ ঘণ্টায় বেড়েছে আক্রান্ত, কমেছে মৃত্যু

ছবি

সোমালিয়ায় আত্মঘাতী বোমা হামলা, নিহত ১৫

ছবি

বিশ্বজুড়ে করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত আবারও বেড়েছে

ছবি

দ্রুত ছড়াচ্ছে ডেল্টা ধরন, ৭৪ দেশে শনাক্ত

জাতিসংঘে বাংলাদেশ স্থায়ী মিশনে ‘বঙ্গবন্ধু লাউঞ্জ’ উদ্বোধন

ছবি

সু চির বিচার শুরু হচ্ছে আজ

ছবি

সোমালিয়ায় সেনা অভিযানে ৫০ আল-শাবাব জঙ্গি নিহত

ছবি

ইসরায়েলের প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বেনেটের শপথ

ছবি

আক্রান্ত বেড়ে ১৭ কোটি ৬৭ লাখ

ছবি

ভারতে দুই মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন করোনা শনাক্ত

ছবি

মৃত্যু ৩৮ লাখ ১০ হাজার ছাড়াল

ছবি

নাইজেরিয়ায় বন্দুকধারীদের হামলায় নিহত ৫৩

ছবি

যে কারণে জনসনের ৬ কোটি করোনা টিকা ফেলে দিতে হবে

ছবি

চার বছর পর বিজেপি ছেড়ে ফের তৃণমূলে পুত্রসহ মুকুল রায়

ছবি

দুর্ভিক্ষের কবলে ইথিওপিয়ার উত্তরাঞ্চল

ছবি

ফাইজার, মডার্নার করোনার টিকায় তরুণদের হৃদযন্ত্রে প্রদাহ: সিডিসি

tab

আন্তর্জাতিক

কানাডা-যুক্তরাষ্ট্র সীমান্তের বিধিনিষেধ নিয়ে সিদ্ধান্ত শুক্রবার

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট
image

বুধবার, ০৯ জুন ২০২১

আগামী শুক্রবার (১১ জুন) কানাডা-যুক্তরাষ্ট্রের সীমান্ত খোলার বিষয়ে সিদ্ধান্ত আসতে পারে। টিকা গ্রহণকারীরা কীভাবে প্রতিবেশী দেশে সহজে ভ্রমণ করতে পারেন বিধিনিষেধ শিথিলের মাধ্যমে এ নিয়ে পরিকল্পনা করা হচ্ছে বলে জানা গেছে।

করোনার মহামারির কারণে বর্তমানে সীমান্তটি বন্ধ রয়েছে। তবে নাগরিক এবং স্থায়ী বাসিন্দারা কানাডায় প্রবেশের অনুমতি পেয়েছেন।গত মাসে কোভিড-১৯ পরীক্ষা এবং স্ক্রিনিংয়ের মাধ্যমে ভ্রমণ ফের শুরু করার জন্য নির্দেশিকা তৈরি করেছিল দেশটির ফেডারেল প্যানেল।

কানাডা-যুক্তরাষ্ট্র সীমান্ত বন্ধের মেয়াদ আগামী ২১ জুন শেষ হওয়ার কথা রয়েছে। তাই শুক্রবার কী ঘোষণা আসে, সেদিকে সবাই তাকিয়ে আছেন।

এদিকে মঙ্গলবার (৮ জুন) অটোয়ায় একটি সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো বলেছেন, যখন ঘোষণা দেওয়ার কথা রয়েছে, তখন আপনি নিশ্চিত হতে পারেন যে আমরা সেগুলো করব। তবে তিনি পরিষ্কার করে বলে দিয়েছেন যারা পুরোপুরি ভ্যাকসিন পেয়েছেন তারা সর্বপ্রথম ভ্রমণ বিধিনিষেধের সুবিধা পাবেন।

জনগণ যাতে তাদের ভ্যাকসিনের দুটি ডোজ গ্রহণ করে, সেজন্য পুরোপুরি টিকা দেওয়া কানাডিয়ানদের প্রতি নিষেধাজ্ঞাগুলো সহজ করা হবে।

অন্যদিকে অপ্রয়োজনীয় ভ্রমণকে সীমাবদ্ধ করে যুক্তরাষ্ট্র-কানাডার যৌথ উদ্যোগের বিষয়টি পুর্নর্বিবেচনার আহ্বান জানিয়েছে কানাডার পর্যটন ও ব্যবসায়িক সংস্থাগুলো।

বিশিষ্ট কলামিস্ট, উন্নয়ন গবেষক ও সমাজতাত্ত্বিক বিশ্লেষক মো. মাহমুদ হাসান বলেন, দ্রুতগতিতে ভ্যাকসিনেশন কাভারেজ আর কোভিড-১৯ এর স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ ছাড়া অন্যকোনো বিকল্প পথ যে খোলা নেই, দ্রুত কোভিড পরিস্থিতির উন্নতি সে বিষয়টিই প্রমাণ করে। জীবন-জীবিকার উন্নয়ন আর দীর্ঘ শিক্ষা বিরতি সামাজিক ও মনোজাগতিক ক্ষেত্রে যে প্রতিকূল পরিস্থিতির সৃষ্টি করেছে তা থেকে উত্তরণে সঠিক পথেই এগিয়ে যাচ্ছে জাস্টিন ট্রুডোর সরকার।

বিশিষ্ট কমিউনিটি ব্যক্তিত্ব এবং রিয়েল এস্টেট ব্যবসায়ী কিরন বণিক শংকর করোনাকালীন সময়ে জাস্টিন ট্রুডো সরকারের নেওয়া প্রতিটি পদক্ষেপে প্রশংসা করে বলেন, দেশটির নাগরিকদের সুস্বাস্থ্য ও অর্থনৈতিক অবস্থা স্থিতিশীল রাখতে তার বিকল্প নেই।

২০২০ সালের মার্চ মাস থেকে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সীমান্ত অনাবশ্যক ভ্রমণকারীদের জন্য বন্ধ রাখা হয়েছে। এর ফলে দুই দেশের মধ্যে স্থল ও আকাশপথে যাত্রী চলাচল ব্যাপকভাবে কমে গেছে। এ বিধিনিষেধের বড় ধরনের প্রভাব পড়েছে কানাডার পর্যটন খাতে। সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে এয়ারলাইন্সগুলো।

এক হিসাব বলছে, বিধিনিষেধের ফলে গতবছর এ খাত ১ হাজার ৬৫০ কোটি ডলার রাজস্ব হারিয়েছে। এ ক্ষতির কথা চিন্তা করে যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে সীমান্ত খুলে দেওয়ার ব্যাপারে প্রাথমিক আলোচনা শুরু করেছে ট্রুডো সরকার। যদিও ভ্যাকসিনেশনে যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে এখনও অনেক পিছিয়ে কানাডা।

back to top