alt

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

টেলিটকের ফাইভ জি : ঢাকায় ২০২৫ এর শুরুতে মিলতে পারে সেবা

জাহিদা পারভেজ ছন্দা : মঙ্গলবার, ০২ আগস্ট ২০২২

ঢাকা মেট্রোপলিটন এলাকায় পঞ্চম প্রজন্মের ইন্টারনেট বা ফাইভ-জি সেবা চালু করতে চায় রাষ্ট্রায়ত্ত মুঠোফোন সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান টেলিটক। আর এই পঞ্চম প্রজন্ম বা ফাইভ জি সেবা দিতে ২৩৬ কোটি ৫৪ লাখ টাকার একটি প্রকল্প হাতে নিচ্ছে রাষ্ট্রায়ত্ত মোবাইল ফোন অপারেটর টেলিটক।

প্রকল্পটির চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য আজ জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় উপস্থাপন করা হবে বলে সংবাদকে জানিয়েছেন টেলিটকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) মো. সাহাব উদ্দিন।

আজ অনুমোদন পেলে আগামী দেড় বছরের মধ্যে এই পঞ্চম প্রজন্মের সেবা চালু করতে পারবেন বলে আশা করছেন সাহাব উদ্দিন। তিনি বলেন, ‘যেহেতু এই প্রযুক্তি নতুন ও ব্যয় বহুল তাই দুই তিন মাস বেশি সময় লাগতে পারে, তবে চেষ্টা থাকবে সময়ের মধ্যে শেষ করার।’

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের ‘ঢাকা মেট্রোপলিটন এলাকায় টেলিটকের নেটওয়ার্কে বাণিজ্যিকভাবে ৫জি প্রযুক্তি চালুকরণ’ শীর্ষক এই প্রকল্প ২০২৪ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে বাস্তবায়ন করতে চায় টেলিটক। অর্থের যোগান আসবে সরকারের নিজস্ব তহবিল থেকে। মেয়াদের মধ্যে কাজ শেষ করতে পারলে ২০২৫ সালের শুরু থেকেই পঞ্চম প্রজন্মের সেবা দেয়া শুরু করবে টেলিটক।

সাহাব উদ্দীন বলেন, ‘প্রাথমিকভাবে ঢাকার এক লাখ গ্রাহককে ফাইভ-জি সেবার আওতায় আনা হবে। পাইলট প্রকল্প হিসেবে অগ্রাধিকার পাবে সরকারি দপ্তর ও বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান ও গুরুত্বপূর্ণ আবাসিক এলাকাগুলো। শুরুতে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন এলাকার গণভবন এবং প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়সহ গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাগুলো ফাইভজির আওতায় আনা হবে। এছাড়া আবাসিক এলাকা মোহাম্মদপুর, শেরে বাংলা নগর, বনানী, গুলশান, ক্যান্টনমেন্ট, উত্তরা টেলিটকের পঞ্চম প্রজন্ম সেবার আওতায় আসবে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন এলাকার বঙ্গভবন, সচিবালয়সহ মতিঝিল, রমনা শাহবাগ ও ধানমন্ডি এলাকার গুরুত্বপূর্ণ ও বাণিজ্যিক স্থাপনাগুলোতে ফাইভ জি সেবা দেয়ার কথা ভাবছে টেলিটক। তিনি বলেন, ‘প্রকল্পটি আমাদের জন্য একটা চ্যালেঞ্জ। এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় আমরা প্রস্তুত হচ্ছি। ডিজিটাল বাংলাদেশের গতি বাড়ানোর পাশাপাশি উন্নত বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে উন্নয়ন করতে প্রকল্পটি অনুমোদন দেয়া সময়ের দাবি। আশা করছি বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে অনুমোদন দেয়া হবে।’

বিটিআরসির নিলাম থেকে গত ৩১ মার্চ টেলিটক এক হাজার ৬৮০ কোটি টাকায় ৩০ মেগাহার্টজ ফাইভ জি তরঙ্গ কেনে।

সাহাব উদ্দিন বলেন, ‘ফাইভ জির যন্ত্রপাতি ফোরজি থেকে আলাদা, দামও অনেক বেশি। তাই ইচ্ছা করলেই ফাইভ জি নেটওয়ার্ক সম্প্রারণ করা যাচ্ছে না। এটি অনেক ব্যয়সাপেক্ষ বিষয়।’

তিনি বলেন, ‘এ প্রকল্পের আওতায় ঢাকা শহরে টেলিটকের ২০০টি ৪জি বিটিএস সাইটে ৫জি প্রযুক্তিনির্ভর টেলিকম যন্ত্রপাতি সংযোজন করে উচ্চগতির ফাইভ জি তরঙ্গ নেটওয়ার্ক তৈরি করা হবে।’

টেলিটকের নেটওয়ার্ক এখনও গ্রাহকদের আশানুরূপ সেবা দিতে পারছে না সেক্ষেত্রে পঞ্চম প্রজন্ম নিয়ে কাজ করা কতোটা যুক্তিযুক্ত এমন প্রশ্নের জবাবে সাহাবউদ্দীন বলেন, ‘এখনও অনেক জায়গায় অর্থাৎ রুরাল এরিয়াতে (গ্রামীণ এলাকায়) টু জি নেটওয়ার্ক আছে। তবে ফাইভ জি হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এই এলাকাগুলো ফোর জি হয়ে যাবে। গ্রাহকরা স্যাটিসফাই (সন্তুষ্ট) যেন হয় সে বিষয়ে কাজ করছি।’

রাষ্ট্রায়ত্ত মোবাইল ফোন অপারেটর টেলিটক ২০০৪ সালে কাজ শুরু করে। বর্তমানে এর গ্রাহক সংখ্যা ৬৭ লাখের মত, যা মোট মোবাইল গ্রাহকের সাড়ে ৩ শতাংশের মত।

ছবি

‘স্মার্ট সোসাইটি’ প্রকল্প বিষয়ে মতবিনিময়

ছবি

গ্রুপে ফোন নম্বর লুকিয়ে রাখতে দেবে হোয়াটসঅ্যাপ

ছবি

সাইবার দুনিয়ায় সুরক্ষিত রাখতে নারীদের ডিজিটাল লিটারেসি বিষয়ে প্রাথমিক ধারণা দিতে হবে: আইসিটি প্রতিমন্ত্রী পলক

ছবি

সিক্স-জি নিয়ে ভিভোর উদ্যোগ

ছবি

হুয়াওয়ে ক্লাউড ও ডিজিটাল পাওয়ার টিমে ৬০ জন তরুন বাংলাদেশী

ছবি

বাজারে গিগাবাইটের নকল পন্যের ব্যাপারে সচেতন হওয়ার আহ্বান

ছবি

ডিজিটাইলাইজেশনের আওতায় রুয়েট

ছবি

তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান উইডেভস এ হঠাৎ করে ‘গণহারে‘ কর্মী ছাটাই

ছবি

বেড়ে গিয়েছে পৃথিবীর গতি! ২৪ ঘণ্টার কমেই সম্পূর্ণ হচ্ছে এক দিন

ছবি

বাংলা গবেষণা চৌর্যবৃত্তি নির্ণয়ে সহযোগী সফটওয়্যার উদ্ভাবন করলো ঢাবি

ছবি

তীব্র সমালোচনার মুখে পিছু হটলো ইনস্টাগ্রাম

ছবি

ডিজিটাল বাংলাদেশ বিষয়ক বেষ্ট রিপোর্টিং অ্যাওয়ার্ড প্রদান

ছবি

অর্থনৈতিক বিপর্যয়ে মেটা, বিপুল সম্পত্তি হ্রাস

ছবি

নাটোর হাইটেক পার্কের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন

ছবি

বাংলাদেশে গুগলের অ্যান্ড্রয়েড আর্থকুয়েক অ্যালার্ট সিস্টেম চালু

ছবি

এক ফোনে ৫ আইডি ব্যবহারের সুযোগ দিলো ফেসবুক

তথ্যপ্রযুক্তি খাতে নারীর অংশগ্রহণ বাড়াতে হবে

ছবি

বেসিস উইমেন্স ফোরামের আয়োজনে নারীর ক্ষমতায়নে তথ্যপ্রযুক্তির ব্যবহার বিষয়ক গোলটেবিল বৈঠক

ছবি

টিকটক ২০২২ সালের প্রথম প্রান্তিকে বাংলাদেশ থেকে প্রায় ৩.৫ মিলিয়ন ভিডিও সরিয়েছে

ছবি

কক্সবাজারে ‘হাই-টেক পার্ক’-এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

ছবি

কক্সবাজারে ‘হাই-টেক পার্ক’-এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

ফেসবুকে এক অ্যাকাউন্ট থেকে চালানো যাবে পাঁচটি প্রোফাইল

ছবি

টুইটার কেনার চুক্তি বাতিল করলেন ইলন মাস্ক

ছবি

বাঙালি ছাত্র পেলেন ফেইসবুক চাকরি, বার্ষিক বেতন ২ কোটি ১৩ লাখ টাকা

ছবি

বাংলাদেশে চরমপন্থা ঠেকাতে ফেইসবুকে স্থানীয় বিশেষজ্ঞ নিয়োগ

ছবি

মোশন গ্রাফিক্স ল্যাব স্থাপন করা হবে: আইসিটি প্রতিমন্ত্রী

ছবি

ময়মনসিংহে হাইটেক পার্ক এর ভিত্তিপ্রস্তর

চতুর্থ শিপ্ল বিপ্লবের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় তরুণদের আইসিটিতে দক্ষ করে গড়ে তোলা হচ্ছে

ছবি

খুলনা হাইটেক পার্ক এর ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

ছবি

এখন থেকে টেলিগ্রাম ব্যবহারেও গুনতে হবে টাকা

ছবি

রংপুরে ড. এম এ ওয়াজেদ মিয়া হাই-টেক পার্ক-এর ভিত্তিপ্রস্তর

আইএসপিএবি’র আয়োজনে কক্সবাজারে ৪ দিনের প্রশিক্ষণ কর্মশালা

ছবি

হুয়াওয়ে ডিজিটাল ইনোভেশন কংগ্রেসঃ ডিজিটাল ইকোনমি ও ইনোভেশনে গুরুত্ব

ছবি

সাইবার সিকিউরিটি, ই-গভর্নেন্স, স্টার্টআপ ইকোসিস্টেম: বাংলাদেশের সাথে কাজ করবে থাইল্যান্ড

ছবি

ওরাকল ‘ডিসেম্বরের মধ্যে’ বাংলাদেশে ‘কার্যক্রম’ শুরু করবে

ছবি

আইসিটি অবকাঠামো বিনির্মাণে বিশ্বব্যাংক ও আইসিটি বিভাগ ‘যৌথভাবে কাজ’ করবে

tab

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি

টেলিটকের ফাইভ জি : ঢাকায় ২০২৫ এর শুরুতে মিলতে পারে সেবা

জাহিদা পারভেজ ছন্দা

মঙ্গলবার, ০২ আগস্ট ২০২২

ঢাকা মেট্রোপলিটন এলাকায় পঞ্চম প্রজন্মের ইন্টারনেট বা ফাইভ-জি সেবা চালু করতে চায় রাষ্ট্রায়ত্ত মুঠোফোন সেবাদাতা প্রতিষ্ঠান টেলিটক। আর এই পঞ্চম প্রজন্ম বা ফাইভ জি সেবা দিতে ২৩৬ কোটি ৫৪ লাখ টাকার একটি প্রকল্প হাতে নিচ্ছে রাষ্ট্রায়ত্ত মোবাইল ফোন অপারেটর টেলিটক।

প্রকল্পটির চূড়ান্ত অনুমোদনের জন্য আজ জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটির (একনেক) সভায় উপস্থাপন করা হবে বলে সংবাদকে জানিয়েছেন টেলিটকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) মো. সাহাব উদ্দিন।

আজ অনুমোদন পেলে আগামী দেড় বছরের মধ্যে এই পঞ্চম প্রজন্মের সেবা চালু করতে পারবেন বলে আশা করছেন সাহাব উদ্দিন। তিনি বলেন, ‘যেহেতু এই প্রযুক্তি নতুন ও ব্যয় বহুল তাই দুই তিন মাস বেশি সময় লাগতে পারে, তবে চেষ্টা থাকবে সময়ের মধ্যে শেষ করার।’

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের ‘ঢাকা মেট্রোপলিটন এলাকায় টেলিটকের নেটওয়ার্কে বাণিজ্যিকভাবে ৫জি প্রযুক্তি চালুকরণ’ শীর্ষক এই প্রকল্প ২০২৪ সালের ডিসেম্বরের মধ্যে বাস্তবায়ন করতে চায় টেলিটক। অর্থের যোগান আসবে সরকারের নিজস্ব তহবিল থেকে। মেয়াদের মধ্যে কাজ শেষ করতে পারলে ২০২৫ সালের শুরু থেকেই পঞ্চম প্রজন্মের সেবা দেয়া শুরু করবে টেলিটক।

সাহাব উদ্দীন বলেন, ‘প্রাথমিকভাবে ঢাকার এক লাখ গ্রাহককে ফাইভ-জি সেবার আওতায় আনা হবে। পাইলট প্রকল্প হিসেবে অগ্রাধিকার পাবে সরকারি দপ্তর ও বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠান ও গুরুত্বপূর্ণ আবাসিক এলাকাগুলো। শুরুতে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন এলাকার গণভবন এবং প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়সহ গুরুত্বপূর্ণ স্থাপনাগুলো ফাইভজির আওতায় আনা হবে। এছাড়া আবাসিক এলাকা মোহাম্মদপুর, শেরে বাংলা নগর, বনানী, গুলশান, ক্যান্টনমেন্ট, উত্তরা টেলিটকের পঞ্চম প্রজন্ম সেবার আওতায় আসবে।

ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন এলাকার বঙ্গভবন, সচিবালয়সহ মতিঝিল, রমনা শাহবাগ ও ধানমন্ডি এলাকার গুরুত্বপূর্ণ ও বাণিজ্যিক স্থাপনাগুলোতে ফাইভ জি সেবা দেয়ার কথা ভাবছে টেলিটক। তিনি বলেন, ‘প্রকল্পটি আমাদের জন্য একটা চ্যালেঞ্জ। এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলায় আমরা প্রস্তুত হচ্ছি। ডিজিটাল বাংলাদেশের গতি বাড়ানোর পাশাপাশি উন্নত বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে উন্নয়ন করতে প্রকল্পটি অনুমোদন দেয়া সময়ের দাবি। আশা করছি বিষয়টি বিবেচনায় নিয়ে অনুমোদন দেয়া হবে।’

বিটিআরসির নিলাম থেকে গত ৩১ মার্চ টেলিটক এক হাজার ৬৮০ কোটি টাকায় ৩০ মেগাহার্টজ ফাইভ জি তরঙ্গ কেনে।

সাহাব উদ্দিন বলেন, ‘ফাইভ জির যন্ত্রপাতি ফোরজি থেকে আলাদা, দামও অনেক বেশি। তাই ইচ্ছা করলেই ফাইভ জি নেটওয়ার্ক সম্প্রারণ করা যাচ্ছে না। এটি অনেক ব্যয়সাপেক্ষ বিষয়।’

তিনি বলেন, ‘এ প্রকল্পের আওতায় ঢাকা শহরে টেলিটকের ২০০টি ৪জি বিটিএস সাইটে ৫জি প্রযুক্তিনির্ভর টেলিকম যন্ত্রপাতি সংযোজন করে উচ্চগতির ফাইভ জি তরঙ্গ নেটওয়ার্ক তৈরি করা হবে।’

টেলিটকের নেটওয়ার্ক এখনও গ্রাহকদের আশানুরূপ সেবা দিতে পারছে না সেক্ষেত্রে পঞ্চম প্রজন্ম নিয়ে কাজ করা কতোটা যুক্তিযুক্ত এমন প্রশ্নের জবাবে সাহাবউদ্দীন বলেন, ‘এখনও অনেক জায়গায় অর্থাৎ রুরাল এরিয়াতে (গ্রামীণ এলাকায়) টু জি নেটওয়ার্ক আছে। তবে ফাইভ জি হওয়ার সঙ্গে সঙ্গে এই এলাকাগুলো ফোর জি হয়ে যাবে। গ্রাহকরা স্যাটিসফাই (সন্তুষ্ট) যেন হয় সে বিষয়ে কাজ করছি।’

রাষ্ট্রায়ত্ত মোবাইল ফোন অপারেটর টেলিটক ২০০৪ সালে কাজ শুরু করে। বর্তমানে এর গ্রাহক সংখ্যা ৬৭ লাখের মত, যা মোট মোবাইল গ্রাহকের সাড়ে ৩ শতাংশের মত।

back to top