alt

অর্থ-বাণিজ্য

অনিয়মের কারণে বন্ধ হলো বিশ্বব্যাংকের ইজ অব ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদন

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক : শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

কয়েক বছর আগে শুরু হওয়া ব্যবসায় পরিবেশক সৃষ্টিতে কোন দেশ কততম অবস্থানে রয়েছে- এমন তথ্য দেয়া প্রতিবেদন, ইজ অব ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদন অবশেষে বন্ধ হয়ে গেল। চিলির সমাজতান্ত্রিক সরকারের বদনাম করতে অনিয়মের আশ্রয় নেয়ার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় এই রিপোর্ট আর না করার ঘোষণা দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। এক ঘোষণায় বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) সংস্থাটি জানায়, ডুয়িং বিজনেস রিপোর্ট আর দেয়া হবে না।

যুক্তরাষ্ট্রের রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসিতে অবস্থিত বিশ্বব্যাংকের সদরদপ্তর থেকে এই ঘোষণা দেয়া হয়। এ বিষয়ে নিজেদের ওয়েবসাইটে একটি বিবৃতিও দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। প্রতিবছর বিশ্বব্যাংক গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান ইন্টারন্যাশনাল ফাইন্যান্স করপোরেশন (আইএফসি) বাংলাদেশসহ বিশ্বব্যাংকের সদস্য দেশগুলোর ডুয়িং বিজনেস রিপোর্ট তৈরি করে।

ব্যবসা শুরু, বিদ্যুৎ-সংযোগ, সম্পত্তি নিবন্ধন, কর ব্যবস্থাসহ কয়েকটি নির্দেশক বা মানদন্ডের প্রতিটির ওপর ১০০ নম্বরের মধ্যে প্রাপ্ত নম্বর গড় করে চূড়ান্ত স্কোর নির্ণয় করা হয়। স্কোরের ভিত্তিতে দেশগুলোর অবস্থানের তালিকা করা হয়।

২০১৪ সালে বিশ্বব্যাংকের ডুয়িং বিজনেস সূচকে চিলির অবস্থান ছিল ৩৪তম। ২০১৭ সালে এসে সেই চিলি পিছিয়ে চলে যায় ৫৫তম অবস্থানে। বিষয়টি ভালোভাবে নেননি চিলির তখনকার রাষ্ট্রপতি মিশেল বাশলে। ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদনের পদ্ধতিগত পরিবর্তন নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তিনি। এর জেরে বিশ্বব্যাংকের এ সূচক তৈরির অনিয়ম প্রথম ধরা পড়ে।

ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৪ সালে চিলি ৩৪তম অবস্থানে ছিল। ২০১৭ সালে তা পিছিয়ে ৫৫তম অবস্থানে নেমেছে। এরপর চিলির রাষ্ট্রপতি ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদনের পদ্ধতিগত পরিবর্তন নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। চিলির কর্মকর্তারা বিশ্বব্যাংকের সমালোচনা করে বলেন, সংস্থাটি দক্ষিণ আমেরিকার দেশটির ক্ষেত্রে তাদের বার্ষিক ‘ডুয়িং বিজনেস’ প্রতিযোগিতামূলক র‌্যাঙ্কিংয়ে অন্যায় আচরণ করেছে।

২০১৪ সালে চিলির প্রেসিডেন্ট হন মিশেল বাশলে। এরপরে তার শাসনামলের পরবর্তী তিন বছরই ডুয়িং বিজনেস সূচকে চিলির অধঃপতন হয়। ২০১৫ সালে ৪১, ২০১৬ সালে ৪৮ ও ২০১৭ সালে ৫৫তম হয় চিলির অবস্থান। চিলির প্রেসিডেন্টের অভিযোগের ভিত্তিতে বিষয়টি পর্যালোচনায় নেয়া হয়। পরে বিশ্বব্যাংকের সে সময়ের প্রধান অর্থনীতিবিদ পল রোমার অসংগতির কথা জানান।

তার তথ্যানুযায়ী, বিশ্বব্যাংকের একজন সাবেক পরিচালক এমনভাবে জালিয়াতি করে ‘ইজ অফ ডুয়িং বিজনেস’ সূচক নির্ণয়ের পদ্ধতি তৈরি করেছিলেন, যাতে চিলির ক্ষমতাসীন সমাজতান্ত্রিক সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করা যায়।

পল রোমার প্রতিবেদনের পদ্ধতিতে পরিবর্তনের জন্য চিলির কাছে ক্ষমা চান। তিনি স্বীকার করেন বাশলের অধীন ব্যবসায়িক পরিবেশ সম্পর্কে ভুল ধারণা প্রকাশ করা হয়েছে। বিশ্বব্যাংকের এই র‌্যাঙ্কিং রাজনৈতিক প্রভাবযুক্ত। তথ্য সংগ্রহে পদ্ধতিগত পরিবর্তনের ফলে প্রতিবেদনে চিলির অবনমন হতে পারে।

৬৮ শতাংশ কোম্পানির দর বৃদ্ধিতে ঊর্ধ্বমুখী সূচক

ছবি

সাবেক গ্রামীণফোন কর্মীদের স্টার্টআপ ডি টোয়েন্টিফোর লজিস্টিকসের সাথে গ্রামীণফোনের চুক্তি স্বাক্ষর

ছবি

বাংলাদেশ ট্রেড অ্যান্ড ইনভেস্টমেন্ট সামিট শীর্ষক আন্তর্জাতিক সম্মেলন শুরু

ইভ্যালিতে প্রথম কাজ অডিট : মাহবুব কবির

করের আওতায় প্রায় ৬৮ লাখ ব্যক্তি

সৌদি খেজুর চাষে ৫০ লাখ টাকা ঋণ

নয় মাসে ৩১৬ কোটি টাকা মুনাফা সিটি ব্যাংকের

সূচক বাড়লেও লেনদেন মন্দা পুঁজিবাজারে

কোভিড ভ্যাকসিনের বুস্টার ডোজ : গুরুত্ব ও বাস্তবতা

ছবি

সোনালী ব্যাংকের নতুন জেনারেল ম্যানেজার তাওহিদুল ইসলাম

ছবি

‘ই-কমার্সের আটকে থাকা ২১৪ কোটি টাকা ফেরত দেবে সরকার’

অন্যায় করলে জবাবদিহিতায় আসতেই হবে : বিএসইসি কমিশনার

বিউটি সার্ভিস কোর্সের কথা ভাবছে সরকার

এসক্রোতে আটকে থাকা টাকা পেতে আরও অপেক্ষা

অনিয়ম করা চালকলের লাইসেন্স বাতিল হচ্ছে

ছবি

শেয়ারবাজারে বড় পতন, সূচক নামলো ৬৯০০ পয়েন্টের নিচে

ছবি

আইএমএফ এর জবাবের পরই প্রতিক্রিয়া জানাবে বাংলাদেশ ব্যাংক

ছবি

বাহুবলে ড্রাগন চাষে আগ্রহী হয়ে উঠছেন উপজেলার চাষিরা

বিক্রয় চাপে কুপোকাত পুঁজিবাজার

ছবি

আর্থিক প্রতিষ্ঠানসমূহের অংশগ্রহণে সাইবার ড্রিল ২০২১ অনুষ্ঠিত

ছবি

আমরা খাদ্যে সয়ংসম্পন্ন হয়েছি, এবার দরকার পুষ্টিকর খাবার : কৃষিমন্ত্রী

জাহাজে আমদানি-রপ্তানিতে বছরে খরচ ৯ হাজার বিলিয়ন ডলার

ছবি

৯০ টাকা ছাড়াল ডলারের দাম

ছবি

পেঁয়াজ উৎপাদন বৃদ্ধি ও সংরক্ষণের উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে: বাণিজ্যমন্ত্রী

সূচকের উত্থানের সঙ্গে লেনদেনেও তেজিভাব

ছবি

আগামী মাসেই অনলাইনে রিটার্ন দাখিল ও পেমেন্ট সিস্টেম চালুর আশা

ছবি

ফের বাড়তে পারে স্বর্ণের দাম

ছবি

ইলেকট্রনিক্স শিল্প তৈরি পোশাককে ছাড়িয়ে যাবে : সালমান এফ রহমান

সাপ্তাহিক আগ্রহের শীর্ষে সাউথ বাংলা, অনাগ্রহে আলহাজ টেক্সটাইল

কৃষি উদ্যোক্তা তৈরিতে সেল গঠন করা হবে

ছবি

বাংলাদেশের বাজারে ২৯ অক্টোবর থেকে পাওয়া যাবে আইফোন ১৩

ছবি

৮.৫ কোটি টাকার বিনিয়োগ পেলো বন্ডস্টাইন

ছবি

বাংলাদেশে শাওমির মেইড ইন বাংলাদেশ কার্যক্রম উদ্বোধন

ছবি

আগামী ৬ মাস অর্থ ফেরতে চাপ দিতে পারবেন না ইভ্যালির গ্রাহকরা: হাইকোর্ট

সাত কার্যদিবস পর উত্থানে ফিরেছে শেয়ারবাজার

লভ্যাংশ ঘোষণা করেছে ৬ কোম্পানি

tab

অর্থ-বাণিজ্য

অনিয়মের কারণে বন্ধ হলো বিশ্বব্যাংকের ইজ অব ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদন

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

শনিবার, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০২১

কয়েক বছর আগে শুরু হওয়া ব্যবসায় পরিবেশক সৃষ্টিতে কোন দেশ কততম অবস্থানে রয়েছে- এমন তথ্য দেয়া প্রতিবেদন, ইজ অব ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদন অবশেষে বন্ধ হয়ে গেল। চিলির সমাজতান্ত্রিক সরকারের বদনাম করতে অনিয়মের আশ্রয় নেয়ার অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় এই রিপোর্ট আর না করার ঘোষণা দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। এক ঘোষণায় বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্বর) সংস্থাটি জানায়, ডুয়িং বিজনেস রিপোর্ট আর দেয়া হবে না।

যুক্তরাষ্ট্রের রাজধানী ওয়াশিংটন ডিসিতে অবস্থিত বিশ্বব্যাংকের সদরদপ্তর থেকে এই ঘোষণা দেয়া হয়। এ বিষয়ে নিজেদের ওয়েবসাইটে একটি বিবৃতিও দিয়েছে বিশ্বব্যাংক। প্রতিবছর বিশ্বব্যাংক গ্রুপের সহযোগী প্রতিষ্ঠান ইন্টারন্যাশনাল ফাইন্যান্স করপোরেশন (আইএফসি) বাংলাদেশসহ বিশ্বব্যাংকের সদস্য দেশগুলোর ডুয়িং বিজনেস রিপোর্ট তৈরি করে।

ব্যবসা শুরু, বিদ্যুৎ-সংযোগ, সম্পত্তি নিবন্ধন, কর ব্যবস্থাসহ কয়েকটি নির্দেশক বা মানদন্ডের প্রতিটির ওপর ১০০ নম্বরের মধ্যে প্রাপ্ত নম্বর গড় করে চূড়ান্ত স্কোর নির্ণয় করা হয়। স্কোরের ভিত্তিতে দেশগুলোর অবস্থানের তালিকা করা হয়।

২০১৪ সালে বিশ্বব্যাংকের ডুয়িং বিজনেস সূচকে চিলির অবস্থান ছিল ৩৪তম। ২০১৭ সালে এসে সেই চিলি পিছিয়ে চলে যায় ৫৫তম অবস্থানে। বিষয়টি ভালোভাবে নেননি চিলির তখনকার রাষ্ট্রপতি মিশেল বাশলে। ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদনের পদ্ধতিগত পরিবর্তন নিয়ে প্রশ্ন তোলেন তিনি। এর জেরে বিশ্বব্যাংকের এ সূচক তৈরির অনিয়ম প্রথম ধরা পড়ে।

ওয়াল স্ট্রিট জার্নালের এক প্রতিবেদনে বলা হয়, ২০১৪ সালে চিলি ৩৪তম অবস্থানে ছিল। ২০১৭ সালে তা পিছিয়ে ৫৫তম অবস্থানে নেমেছে। এরপর চিলির রাষ্ট্রপতি ডুয়িং বিজনেস প্রতিবেদনের পদ্ধতিগত পরিবর্তন নিয়ে প্রশ্ন তোলেন। চিলির কর্মকর্তারা বিশ্বব্যাংকের সমালোচনা করে বলেন, সংস্থাটি দক্ষিণ আমেরিকার দেশটির ক্ষেত্রে তাদের বার্ষিক ‘ডুয়িং বিজনেস’ প্রতিযোগিতামূলক র‌্যাঙ্কিংয়ে অন্যায় আচরণ করেছে।

২০১৪ সালে চিলির প্রেসিডেন্ট হন মিশেল বাশলে। এরপরে তার শাসনামলের পরবর্তী তিন বছরই ডুয়িং বিজনেস সূচকে চিলির অধঃপতন হয়। ২০১৫ সালে ৪১, ২০১৬ সালে ৪৮ ও ২০১৭ সালে ৫৫তম হয় চিলির অবস্থান। চিলির প্রেসিডেন্টের অভিযোগের ভিত্তিতে বিষয়টি পর্যালোচনায় নেয়া হয়। পরে বিশ্বব্যাংকের সে সময়ের প্রধান অর্থনীতিবিদ পল রোমার অসংগতির কথা জানান।

তার তথ্যানুযায়ী, বিশ্বব্যাংকের একজন সাবেক পরিচালক এমনভাবে জালিয়াতি করে ‘ইজ অফ ডুয়িং বিজনেস’ সূচক নির্ণয়ের পদ্ধতি তৈরি করেছিলেন, যাতে চিলির ক্ষমতাসীন সমাজতান্ত্রিক সরকারকে ক্ষমতাচ্যুত করা যায়।

পল রোমার প্রতিবেদনের পদ্ধতিতে পরিবর্তনের জন্য চিলির কাছে ক্ষমা চান। তিনি স্বীকার করেন বাশলের অধীন ব্যবসায়িক পরিবেশ সম্পর্কে ভুল ধারণা প্রকাশ করা হয়েছে। বিশ্বব্যাংকের এই র‌্যাঙ্কিং রাজনৈতিক প্রভাবযুক্ত। তথ্য সংগ্রহে পদ্ধতিগত পরিবর্তনের ফলে প্রতিবেদনে চিলির অবনমন হতে পারে।

back to top