alt

নগর-মহানগর

রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে রাইডারদের বিক্ষোভ

সংবাদ :
  • সংবাদ অনলাইন ডেস্ক
image
বুধবার, ০৭ এপ্রিল ২০২১

করোনা সংক্রমণ বিস্তার ঠেকাতে নিষেধাজ্ঞার মধ্যে শহরগুলোতে গণপরিবহন চালুর পর রাইড শেয়ারিংয়ে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার দাবিতে বিক্ষোভে করেছে মোটরবাইক চালকরা। বুধবার (৭ এপ্রিল) মগবাজার, খিলক্ষেত, মিরপুর, জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিক্ষোভের সময় সড়কও অবরোধ করে বাইক চালকরা। ঢাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (ট্রাফিক) মো. মুনিবুর রহমান বলেন, তারা বেশ কিছু দাবি দিয়ে বিক্ষোভ করেছে। তাদের দাবি আমরা শুনেছি। তবে তারা বেশিক্ষণ সড়কে অবস্থান করেননি। আধাঘণ্টা থেকে চলে গেছেন।

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে এক সপ্তাহের লকডাউন জারির পর রাইড শেয়ারিংয়েও নিষেধাজ্ঞা দেয়া হয়। তবে মানুষের দুর্ভোগ এড়াতে ঢাকাসহ বড় শহরগুলোতে গণপরিবহন চালুর উপর নিষেধাজ্ঞা বুধবার তুলে নেয়া হয়। শেয়ারে বাইক চালক বা রাইডারদের অভিযোগ, মোটরসাইকেলে দুইজন চলতে তাদের বাধা দেয়া হচ্ছে, পুলিশ মামলা দিয়ে হয়রানি করছে। বন্ধু পরিচয় দিলে আবার ছেড়েও দিচ্ছে- এমন ঘটনাও ঘটছে বলে জানান রাইডার আমানউল্লাহ। তিনি বলেন, একজনকে নিয়ে তিনি নারায়ণগঞ্জ যাওয়ার সময় পথে পুলিশ তাকে আটকায়। পর বন্ধু পরিচয়ের পাশপাশি অনেক অনুনয় অনুরোধ করার পর পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়।

তিনি বলেন, তাদের সহকর্মীদের মধ্যে একজনকে মিরপুরে আটকায় পুলিশ। সেখানে মামলা দিলে অন্যান্য সহকর্মীরা সেখানে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ করে। একইভাবে রাজধানীর বিভিন্নস্থানে বিক্ষোভ হয় বলেও জানান তিনি। আমানউল্লাহ বলেন, আমাদের আয়-রুজির পথ তো বন্ধ হয়ে গেছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, মগবাজার মোড়ে দুপুর ১টার পর বিক্ষোভ শুরু করে রাইডাররা। তখন সেখানে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। পরে পুলিশ তাদের ধাওয়া দিলে সাত রাস্তা মোড়ে গিয়ে অবস্থান নেয় রাইডাররা। সেখানে কিছুক্ষণ থাকার পর পুলিশ আবার ধাওয়া দিলে তারা লাভ রোডের দিকে সরে যায়।

ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে বলা হয়েছে, রাইডাররা রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ করলেও বেশিক্ষণ রাস্তা অবরোধ করে রাখতে পারেনি। পুলিশ তাদের সরিয়ে দিয়েছে। অতিরিক্ত কমিশনার মুনিবুর রহমান জানান, সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ তাদের ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত রাইড শেয়ারিং বন্ধ রাখার অনুরোধ করে সহযোগিতা চেয়েছে। বর্তমান করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় রাইড শেয়ারিংয়ে যাত্রী না ওঠানোর জন্য রাইডারদের অনুরোধ করেন তিনি। মুবিনুর বলেন, দীর্ঘ সময়ের ভালোর জন্য সাময়িক এই অসুবিধা হচ্ছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলেই আবার তারা শুরু করতে পারবে।

ছবি

রাজধানীতে মাদক বিক্রির অভিযোগে গ্রেফতার ৩

সারাদেশে গণপরিবহন চালুর দাবিতে শ্রমিকদের বিক্ষোভ

ছবি

চীনা রাষ্ট্রদূতকে ক্ষমা চাওয়ার দাবিতে মানববন্ধন

মিরপুরে করোনায় ক্ষতিগ্রস্তদের ত্রাণ সহায়তা প্রদান

ছবি

রাজশাহীতে করোনার উপসর্গ নিয়ে দুইজনের মৃত্যু

ছবি

রাজধানীতে বন্ধুর ছুরিকাঘাতে যুবক খুন

ছবি

নিজস্ব অফিসে বৃহত্তর নোয়াখালী কর্মকর্তা ফোরাম

ছবি

অনলাইনে পোশাক বিক্রির নামে প্রতারণা, নারীসহ গ্রেপ্তার

ছবি

রাজধানীতে নিয়মিত বিদ্যুৎ বিভ্রাট

ছবি

ঈদে ছুটির দাবিতে মিরপুরে সড়কে পোশাক শ্রমিকরা

ছবি

সংসদ ভবনে হামলার পরিকল্পনার অভিযোগ, গ্রেপ্তার ২

ছবি

শহরে চলছে গণপরিবহন

ছবি

স্বাস্থ্যবিধি লঙ্ঘন: বন্ধ করে দেয়া হলো চায়না মার্কেট

ছবি

মতিঝিলে হোটেলের কক্ষে যুবকের ঝুলন্ত লাশ

ছবি

গণপরিবহন চালুর দাবিতে রাজধানীতে শ্রমিকদের বিক্ষোভ

ছবি

চট্রগ্রামে এপ্রিলে করোনায় আক্রান্ত হয়ে ১৩৫ জনের মৃত্যু

ছবি

নবজাতকের লাশ ঢামেক এলাকায় ফেলে গেল কুকুর!

ছবি

আরমানিটোলায় অগ্নিকাণ্ড : চলে গেলেন আশিকুর, স্ত্রী লাইফ সাপোর্টে

ছবি

বন্ধ ছাপাখানা-বাঁধাইখানা, দিন চলে না ফরহাদ-রেজাউলের

ছবি

গুলশানের ফ্ল্যাট থেকে তরুণীর লাশ উদ্ধার

ছবি

গ্রিল কেটে পালায় কেমিক্যাল ব্যবসায়ী মোস্তফা

ছবি

ঢাকার তাপমাত্রা আজও থাকতে পারে ৪০ ডিগ্রির কাছাকাছি

ছবি

‘আল্লাহ আমাকে নিয়ে যান তবু আমার ছেলে ও বউয়ের প্রাণভিক্ষা দেন’

ছবি

আরমানিটোলায় আগুন: লাইফ সাপোর্টে সেই নবদম্পতি

ছবি

পুরান ঢাকায় কেমিক্যাল গোডাউনে আগুন

ছবি

মুভমেন্ট পাস নিয়ে প্রাইভেটকারে হেরোইন পাচার!

ছবি

আরমানিটোলায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনায় নিহত বেড়ে ৪

রাজধানীসহ বিভিন্ন অঞ্চলে কালবৈশাখী

রাজধানীর শব্দ ও বায়ু দূষণের জরিপ করবে ক্যাপস

মুভমেন্ট পাস নিয়ে প্রাইভেটকার যোগে মাদক ব্যবসা

ছবি

মেট্রোরেল নির্মাণ কাজের অগ্রগতি ৬১.৪৯ শতাংশ: সেতুমন্ত্রী

ছবি

দেড় ঘণ্টা পর নিভল বালুর মাঠ বস্তির আগুন

ছবি

খিলগাঁওয়ে কিশোরীর ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার

ছবি

করোনাকালে বেড়েছে ধর্ষণ: সিআইডি

ছবি

ছেলের ছোড়া এসিড ঝলসালো পরিবারের ৫ সদস্যের শরীর

লকডাউনে নারী চিকিৎসকের পরিচয়পত্র দেখতে গিয়ে তোলপাড়

tab

নগর-মহানগর

রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে রাইডারদের বিক্ষোভ

সংবাদ :
  • সংবাদ অনলাইন ডেস্ক
image
বুধবার, ০৭ এপ্রিল ২০২১

করোনা সংক্রমণ বিস্তার ঠেকাতে নিষেধাজ্ঞার মধ্যে শহরগুলোতে গণপরিবহন চালুর পর রাইড শেয়ারিংয়ে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয়ার দাবিতে বিক্ষোভে করেছে মোটরবাইক চালকরা। বুধবার (৭ এপ্রিল) মগবাজার, খিলক্ষেত, মিরপুর, জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে বিক্ষোভের সময় সড়কও অবরোধ করে বাইক চালকরা। ঢাকা মহানগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (ট্রাফিক) মো. মুনিবুর রহমান বলেন, তারা বেশ কিছু দাবি দিয়ে বিক্ষোভ করেছে। তাদের দাবি আমরা শুনেছি। তবে তারা বেশিক্ষণ সড়কে অবস্থান করেননি। আধাঘণ্টা থেকে চলে গেছেন।

করোনাভাইরাসের বিস্তার ঠেকাতে এক সপ্তাহের লকডাউন জারির পর রাইড শেয়ারিংয়েও নিষেধাজ্ঞা দেয়া হয়। তবে মানুষের দুর্ভোগ এড়াতে ঢাকাসহ বড় শহরগুলোতে গণপরিবহন চালুর উপর নিষেধাজ্ঞা বুধবার তুলে নেয়া হয়। শেয়ারে বাইক চালক বা রাইডারদের অভিযোগ, মোটরসাইকেলে দুইজন চলতে তাদের বাধা দেয়া হচ্ছে, পুলিশ মামলা দিয়ে হয়রানি করছে। বন্ধু পরিচয় দিলে আবার ছেড়েও দিচ্ছে- এমন ঘটনাও ঘটছে বলে জানান রাইডার আমানউল্লাহ। তিনি বলেন, একজনকে নিয়ে তিনি নারায়ণগঞ্জ যাওয়ার সময় পথে পুলিশ তাকে আটকায়। পর বন্ধু পরিচয়ের পাশপাশি অনেক অনুনয় অনুরোধ করার পর পুলিশ তাকে ছেড়ে দেয়।

তিনি বলেন, তাদের সহকর্মীদের মধ্যে একজনকে মিরপুরে আটকায় পুলিশ। সেখানে মামলা দিলে অন্যান্য সহকর্মীরা সেখানে জড়ো হয়ে বিক্ষোভ করে। একইভাবে রাজধানীর বিভিন্নস্থানে বিক্ষোভ হয় বলেও জানান তিনি। আমানউল্লাহ বলেন, আমাদের আয়-রুজির পথ তো বন্ধ হয়ে গেছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, মগবাজার মোড়ে দুপুর ১টার পর বিক্ষোভ শুরু করে রাইডাররা। তখন সেখানে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। পরে পুলিশ তাদের ধাওয়া দিলে সাত রাস্তা মোড়ে গিয়ে অবস্থান নেয় রাইডাররা। সেখানে কিছুক্ষণ থাকার পর পুলিশ আবার ধাওয়া দিলে তারা লাভ রোডের দিকে সরে যায়।

ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থেকে বলা হয়েছে, রাইডাররা রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে বিক্ষোভ করলেও বেশিক্ষণ রাস্তা অবরোধ করে রাখতে পারেনি। পুলিশ তাদের সরিয়ে দিয়েছে। অতিরিক্ত কমিশনার মুনিবুর রহমান জানান, সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ তাদের ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত রাইড শেয়ারিং বন্ধ রাখার অনুরোধ করে সহযোগিতা চেয়েছে। বর্তমান করোনা সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় রাইড শেয়ারিংয়ে যাত্রী না ওঠানোর জন্য রাইডারদের অনুরোধ করেন তিনি। মুবিনুর বলেন, দীর্ঘ সময়ের ভালোর জন্য সাময়িক এই অসুবিধা হচ্ছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হলেই আবার তারা শুরু করতে পারবে।

back to top