alt

আন্তর্জাতিক

স্কুলে থাকা উচিত দীপ্তি রানীর, বন্দিশালায় নয়: অ্যামনেস্টি

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক: : বৃহস্পতিবার, ২৫ নভেম্বর ২০২১

কলেজ ছাত্রী দীপ্তি রানী দাস ফেইসবুকে ‘ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত’ এনে পোস্ট দেওয়ার অভিযোগে এক বছরের বেশি সময় সংশোধন কেন্দ্রে আটকে রাখায় মুক্তি দিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) এক বিবৃতিতে এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ‘জরুরি পদক্ষেপ’ চেয়েছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল।

গত বছরের ২৮ অগাস্ট ফেইসবুকে দেওয়া একটি ছবিতে ‘কোরআন অবমাননা’ হয়েছে অভিযোগ করে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় দিনাজপুরের পার্বতীপুরের ১৭ বছর বয়সী দীপ্তি রানীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এর পর থেকে তিনি রাজশাহীর একটি সংশোধন কেন্দ্রে আছেন।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত’ দেওয়ার এই ‘ভুয়া অভিযোগে’ দোষী সাব্যস্ত হলে তার সাত বছরের জেলও হতে পারে।

অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের দক্ষিণ এশিয়ার ক্যাম্পেইনার সাদ হামাদি বলেন, “কেবলমাত্র ফেইসবুক পোস্টের কারণে একটি শিশুর বিকাশের সময়টিতে সাজা দিয়ে আটকে রাখায় উদ্বিগ্ন না হয়ে উপায় নেই। তিনি আরও বলেন, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মত নিবর্তনমূলক আইন কাউকে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত করে তুলতে কতটা কার্যকর, এখানে সেটাই দেখা যাচ্ছে।

রাষ্ট্রকে জনগণের অভিভাবক হিসেবে বর্ণনা করে বিবৃতিতে তিনি বলেন, “নিরাপত্তা না দিয়ে, কিশোর বয়সী একটি মেয়েকে এক বছরের বেশি সময় সংশোধন কেন্দ্রে দুর্ভোগে রাখা হয়েছে। দীপ্তি রানীর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে থাকা উচিত, বন্দিশালায় নয়।”

অ্যামনেস্টি জানিয়েছে, গত বছর অগাস্টে দীপ্তি রানী পার্বতীপুর সরকারি কলেজে মানবিক শাখায় ভর্তি হয়েছিলেন। কিন্তু আটকের পর থেকে তিনি পড়ালেখা চালিয়ে যেতে পারছেন না।

বিজ্ঞান বিভাগে পড়তে চাইলেও পরিবারের আর্থিক অস্বচ্ছলতার কারণে মানবিকে ভর্তি হওয়া দীপ্তি রানী ছবি আঁকতে এবং গল্প লিখতে ভালবাসেন।

গ্রেপ্তারের পর নিম্ন আদালতে তিনবার তার জামিন আবেদন খারিজ করা হয়। পরে চলতি বছর ১১ মে হাই কোর্ট তার জামিন মঞ্জুর করলেও রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনে সে আদেশ স্থগিত করে আদালত।

দীপ্তি, তার পরিবার এবং বাংলাদেশের ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের ‘সাম্প্রদায়িক ও রাজনৈতিকভাবে প্রভাবিত’ সহিংসতা থেকে রক্ষার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল।

অ্যামনেস্টি আরও জানিয়েছে, মত প্রকাশের কারণে গ্রেপ্তার সবাইকে মুক্তি দেওয়ার পাশাপাশি ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিলোপ অথবা আন্তর্জাতিক আইনের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে সংশোধনেরও আহ্বান জানানো হয়েছে।

ছবি

বান্ধবীকে খুন করে পেট চিড়ে নবজাতক চুরি!

ছবি

নিউইয়র্ক জুড়ে জরুরি অবস্থা জারি

ছবি

বিশ্বজুড়ে করোনায় কমেছে মৃত্যু-শনাক্ত

ছবি

করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট: ‘ওমিক্রন’ নিয়ে এত উদ্বেগ কেন?

ছবি

সাত দেশে ফ্লাইট স্থগিত করেছে আরব আমিরাত

ছবি

গ্রহাণুকে কক্ষচ্যুত করতে নাসার ’আত্মঘাতী’ মহাশূন্যযান

ছবি

করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্ট: এশিয়া-ইউরোপ সীমান্তে কড়াকড়ি

ছবি

করোনা শনাক্ত ৩: বন্ধ হলো স্কুল, বাতিল পাঁচ শতাধিক ফ্লাইট

ছবি

মেক্সিকোতে নারীবাদী বিক্ষোভে গুলিতে নিহত ৩

ছবি

দক্ষিণ আফ্রিকায় করোনার নতুন ভ্যারিয়েন্টে, বাড়ছে উদ্বেগ

ছবি

রাশিয়ায় খনিতে বিস্ফোরণ, নিহত বেড়ে ৫২

ছবি

বিশ্বে করোনা সংক্রমণ ২৬ কোটি ছাড়াল

ছবি

গ্রহাণুর আঘাতে মারা যাবে অসংখ্য মানুষ!

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রের কালো তালিকায় চীনের ১ ডজন প্রতিষ্ঠান

ছবি

১২ ঘণ্টার মধ্যেই পদত্যাগ সুইডেনের প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রীর

ছবি

ইংলিশ চ্যানেলে নৌকাডুবি, অন্তত ২৭ শরণার্থীর মৃত্যু

ছবি

সুইডেনের ইতিহাসে প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রী ম্যাগদালিনা

ছবি

শীর্ষ দূষিত ১০০ শহরের ৪টি বাংলাদেশে, ৪৬টি ভারতে

ছবি

দাম কমাতে ৫ কোটি ব্যারেল জ্বালানি তেল ছাড়বে আমেরিকা

ছবি

যুক্তরা‌ষ্ট্রের গণতন্ত্র স‌ম্মেল‌নে আমন্ত্রণ পায়নি বাংলাদেশ

ছবি

চার মাসে ৭ লাখ মৃত্যুর আশংকা ইউরোপে

ছবি

বিশ্বে সংক্রমণ বাড়ল লক্ষাধিক, মৃত্যু সাড়ে ৭ হাজার

ছবি

কাশ্মীরের মানবাধিকারকর্মী খুররম পারভেজ গ্রেপ্তার

ছবি

আফগানিস্তানকে প্রায় ৩ কোটি ডলার সহায়তা দেবে পাকিস্তান

ছবি

দক্ষিণ কোরিয়ার সাবেক সামরিক শাসক চুন ডো-হোয়ানের মৃত্যু

ছবি

বুলগেরিয়ায় দুর্ঘটনার পর বাসে আগুন, নিহত ৪৫

ছবি

বিশ্বে করোনায় আরও সাড়ে ৫ হাজার মানুষের মৃত্যু

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রে ক্রিসমাস প্যারেডের ভিড়ে চলন্ত গাড়ি, ‘কয়েকজন হতাহত’

ছবি

টিভি নাটকে নিষিদ্ধ নারী, তালেবানের ৮ দফা নির্দেশিকা

ছবি

টিকাপ্রাপ্ত ভিসাধারী বিদেশিদের প্রবেশের অনুমতি দেবে অস্ট্রেলিয়া

ছবি

মহাকাশ স্টেশনে যাচ্ছেন প্রথম কৃষ্ণাঙ্গ নারী

ছবি

মেক্সিকোতে বাংলাদেশিসহ আটক ৬০০

ছবি

সোমালিয়ায় জঙ্গিগোষ্ঠীর আত্মঘাতি বোমা হামলায় সাংবাদিক নিহত

ছবি

হঠাৎ বিক্ষোভে উত্তাল ইউরোপ

ছবি

লিবীয় উপকূলে নৌকাডুবি ৭৫ অভিবাসনপ্রত্যাশীর মৃত্যু

ছবি

৮৫ মিনিটের জন্যে মার্কিন প্রেসিডেন্ট কমলা হ্যারিস

tab

আন্তর্জাতিক

স্কুলে থাকা উচিত দীপ্তি রানীর, বন্দিশালায় নয়: অ্যামনেস্টি

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক:

বৃহস্পতিবার, ২৫ নভেম্বর ২০২১

কলেজ ছাত্রী দীপ্তি রানী দাস ফেইসবুকে ‘ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত’ এনে পোস্ট দেওয়ার অভিযোগে এক বছরের বেশি সময় সংশোধন কেন্দ্রে আটকে রাখায় মুক্তি দিতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল।

বৃহস্পতিবার (২৫ নভেম্বর) এক বিবৃতিতে এ বিষয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ‘জরুরি পদক্ষেপ’ চেয়েছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল।

গত বছরের ২৮ অগাস্ট ফেইসবুকে দেওয়া একটি ছবিতে ‘কোরআন অবমাননা’ হয়েছে অভিযোগ করে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় দিনাজপুরের পার্বতীপুরের ১৭ বছর বয়সী দীপ্তি রানীকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। এর পর থেকে তিনি রাজশাহীর একটি সংশোধন কেন্দ্রে আছেন।

বিবৃতিতে বলা হয়, ‘ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত’ দেওয়ার এই ‘ভুয়া অভিযোগে’ দোষী সাব্যস্ত হলে তার সাত বছরের জেলও হতে পারে।

অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের দক্ষিণ এশিয়ার ক্যাম্পেইনার সাদ হামাদি বলেন, “কেবলমাত্র ফেইসবুক পোস্টের কারণে একটি শিশুর বিকাশের সময়টিতে সাজা দিয়ে আটকে রাখায় উদ্বিগ্ন না হয়ে উপায় নেই। তিনি আরও বলেন, ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মত নিবর্তনমূলক আইন কাউকে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত করে তুলতে কতটা কার্যকর, এখানে সেটাই দেখা যাচ্ছে।

রাষ্ট্রকে জনগণের অভিভাবক হিসেবে বর্ণনা করে বিবৃতিতে তিনি বলেন, “নিরাপত্তা না দিয়ে, কিশোর বয়সী একটি মেয়েকে এক বছরের বেশি সময় সংশোধন কেন্দ্রে দুর্ভোগে রাখা হয়েছে। দীপ্তি রানীর শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে থাকা উচিত, বন্দিশালায় নয়।”

অ্যামনেস্টি জানিয়েছে, গত বছর অগাস্টে দীপ্তি রানী পার্বতীপুর সরকারি কলেজে মানবিক শাখায় ভর্তি হয়েছিলেন। কিন্তু আটকের পর থেকে তিনি পড়ালেখা চালিয়ে যেতে পারছেন না।

বিজ্ঞান বিভাগে পড়তে চাইলেও পরিবারের আর্থিক অস্বচ্ছলতার কারণে মানবিকে ভর্তি হওয়া দীপ্তি রানী ছবি আঁকতে এবং গল্প লিখতে ভালবাসেন।

গ্রেপ্তারের পর নিম্ন আদালতে তিনবার তার জামিন আবেদন খারিজ করা হয়। পরে চলতি বছর ১১ মে হাই কোর্ট তার জামিন মঞ্জুর করলেও রাষ্ট্রপক্ষের আবেদনে সে আদেশ স্থগিত করে আদালত।

দীপ্তি, তার পরিবার এবং বাংলাদেশের ধর্মীয় সংখ্যালঘুদের ‘সাম্প্রদায়িক ও রাজনৈতিকভাবে প্রভাবিত’ সহিংসতা থেকে রক্ষার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল।

অ্যামনেস্টি আরও জানিয়েছে, মত প্রকাশের কারণে গ্রেপ্তার সবাইকে মুক্তি দেওয়ার পাশাপাশি ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের বিলোপ অথবা আন্তর্জাতিক আইনের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে সংশোধনেরও আহ্বান জানানো হয়েছে।

back to top