alt

জাতীয়

ইলিয়াস আলীর ‘গুম’ নিয়ে আমার বক্তব্য ‘কাটপিস’ করা হয়েছে: মির্জা আব্বাস

সংবাদ :
  • সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট
image
রোববার, ১৮ এপ্রিল ২০২১

বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য এম ইলিয়াস আলী নিখোঁজের ঘটনা নিয়ে তার বক্তব্য কয়েকটি গণমাধ্যমে বিকৃত করে প্রকাশ করা হয়েছে, বলে অভিযোগ করেছেন দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস। তার অভিযোগ, “আমার দেয়া বক্তব্যকে কাটপিস করা হয়েছে।“

আজ রোববার (১৮ এপ্রিল) দুপুরে রাজধানীর শাহজাহানপুরে নিজের বাসায় আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, “আমি গতকাল ইলিয়াস আলীর গুমের বিষয়ে বক্তব্য রেখেছিলাম। আমি বক্তব্য রাখার পর ১ ঘণ্টা সময়ও লাগেনি বিভিন্ন মিডিয়া ফোন করেছে। আমি কি এ কথা বলেছি কিনা, ওই কথা বলেছি কিনা। আমি তো বুঝতেই পারলাম না যে আমি এমন কী কথা বললাম?“

শনিবার এক আলোচনা সভায় মির্জা আব্বাস ইলিয়াস আলীর ‘গুমের’ সঙ্গে আওয়ামী লীগ বা সরকার জড়িত নয় বলে মন্তব্য করেন। ‘গুমের’ পেছনে নিজ দলের কারো সংশ্লিষ্টতারও তিনি ইঙ্গিত দেন বলে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয়।

২০১২ সালের ১৭ এপ্রিল ঢাকার মহাখালি এলাকা থেকে গাড়িচালক আনসার আলীসহ নিখোঁজ হন ইলিয়াস আলী। বিএনপি অভিযোগ করে আসছে, তাঁকে সরকারই ‘গুম’ করেছে।

কারো নাম উল্লেখ না করে শনিবারের ঐ সভায় মির্জা আব্বাস বলেন, “ইলিয়াস গুম হওয়ার আগের রাতে দলীয় অফিসে কোনো এক ব্যক্তির সঙ্গে তার বাকবিতন্ডা হয় মারাত্মক রকমের। ইলিয়াস তাদের খুব গালিগালাজ করেছিল। সেই যে পেছন থেকে দংশন করা সাপগুলো আমাদের দলে এখনো রয়ে গেছে।”

দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুলকে উদ্দেশ্যে করে তিনি বলেন, “যদি এদেরকে দল থেকে বিতাড়িত না করেন, তাহলে কোনো পরিস্থিতিতেই দল সামনে এগুতে পারবে না।”

“আমি জানি, বাংলাদেশ সরকার বা আওয়ামী লীগ সরকার ইলিয়াসকে গুম করে নাই। কিন্তু গুমটা করলো কে? এই সরকারের কাছে আমি এটা জানতে চাই,” শনিবার এক ভার্চ্যুয়াল আলোচনা সভায় বলেন মির্জা আব্বাস। সিলেট বিভাগ জাতীয়তাবাদী সংহতি সম্মেলনী–ঢাকার উদ্যোগে ভার্চ্যুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন মির্জা ফখরুল।

বিএনপির নীতিনির্ধারণী স্থায়ী কমিটির এই সদস্য আরও বলেন, “একজন জলজ্যান্ত তাজা রাজনৈতিক নেতা গুম হয়ে গেলো দেশের অভ্যন্তর থেকে, আমাদের একজন নেতা সালাহউদ্দিন আহমেদকে দেশ থেকে পাচার করে নিয়ে গেল, আমাদের চৌধুরী আলমকে গুম করে দেয়া হলো, আমাদের কত ছেলেকে গুম করে দেয়া হলো-আমি বুঝলাম এই সরকার করে না। করলো কারা? আমি বলতে চাই, যারা করেছে তারা এদেশের স্বাধীনতা চায় না, তারা এদেশটাকে স্বাধীন সার্বভৌমত্ব থাকতে দেবে না।“

তবে গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদের উল্লেখ করে আজ রোববার বিএনপির এ নেতা বলেন, “সরকার বা আওয়ামী লীগ ইলিয়াসকে গুম করেনি- এ কথা আমি বলিনি। আমার কথাকে বিকৃত করে পেঁচিয়ে লেখা হয়েছে। এছাড়া বিএনপি নেতারাই ইলিয়াস আলীকে গুম করেছে বলেও আমার উদ্ধৃতি দেয়া হয়েছে। আমি বিএনপির স্ট্যান্ডিং কমিটির সদস্য হয়ে এ কথা কি বলা সম্ভব? অর্থাৎ নিজের মাথায় নিজেই বোম ফাটানোর ব্যবস্থা। অর্থাৎ, এটাকেও বিকৃত করা হয়েছে।“

মির্জা আব্বাস বলেন, “আমার বিরুদ্ধে এসব কেন করা হলো আমি জানি না। আমার সহজ সরল বক্তব্যকে বিকৃত করা হয়েছে।“

তিনি বলেন, “সাংবাদিকদের স্বাধীনতা নেই। কিন্তু সংবাদপত্রের স্বাধীনতা আছে, মালিকদের স্বাধীনতা আছে। অবস্থাটা দাঁড়াল, বিএনপির বিরুদ্ধে যা খুশি লিখতে পারবে কিন্তু আওয়ামী লীগের বিপক্ষে একটা কথাও বলা যাবে না।“

নিজের সেই বক্তব্যের ব্যাখ্যায় আব্বাস বলেন, “আমি এমন কোনো কথা বলিনি, যাতে দেশের কাছে, জাতির কাছে, দলের কাছে আমার বিব্রতকর পরিস্থিতির মুখে পড়তে হবে। আমার বক্তব্যকে অনেকে হয়তো বুঝে উঠতে পারেননি। আমার বক্তব্যকে যে যার মতো মনের মাধুরি মিশিয়ে লিখেছে। এর সঙ্গে আমার কোনো সম্পৃক্ততা নেই। এজন্য আমি বা আমার দল দায়-দায়িত্ব বহন করি না। আমি যা বলেছি, আমার সংগঠনের ভালোর জন্য বলেছি। আমি যা বলেছি, ইলিয়াসকে স্মরণ করেই বলেছি। আমার বক্তব্যে আমি যা বলেছিলাম, আশা করি আজ তা বুঝাতে সক্ষম হয়েছি।“

ছবি

ড. ওয়াজেদ মিয়া রাজনীতি থেকে দূরে থেকে বিজ্ঞানের উন্নয়নে কাজ করে গেছেন: স্থপতি ইয়াফেস ওসমান

ছবি

করোনা টিকা: সেরামের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নেয়ার পরামর্শ সংসদীয় কমিটির

ছবি

ভারতীয় ভ্যারিয়েন্ট: সতর্কতার বার্তা জনস্বাস্থ্যবিদদের

ছবি

দেশে করোনায় আরও ৫৬ জনের মৃত্যু, নতুন আক্রান্ত ১৩৮৬

ছবি

খালেদা জিয়াকে বিদেশে চিকিৎসার অনুমতি দেয়নি সরকার

ছবি

একটা ঈদ বাড়িতে না করলে কী হয়

ছবি

অনির্দিষ্টকালের জন্য নেপালের সঙ্গে বিমান যোগাযোগ বন্ধ

ছবি

আজ বিশ্ব মা দিবস

ছবি

আজ লাইলাতুল কদর

ছবি

শিমুলিয়া ঘাটে আজো ঘরমুখো মানুষের উপচেপড়া ভিড়

ছবি

আন্তর্জাতিক ও অভ্যন্তরীণ অভিবাসীর ৭৭ শতাংশই চাকরি খুঁজছেন

ছবি

করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিয়েছেন দেশের ৩৪ লক্ষাধিক মানুষ

ছবি

দেশে করোনায় সাত সপ্তাহে সর্বনিম্ন শনাক্ত

ছবি

দেশে করোনায় আরও ৪৫ মৃত্যু, শনাক্ত ১২৮৫

দেশে করোনার ভারতীয় ধরন শনাক্ত

ছবি

ফেরি বন্ধ, ঘাটে তবুও ভিড়

ছবি

ঈদের আগে দূরপাল্লার গণপরিবহন চালুর দাবি, বিক্ষোভের হুঁশিয়ারি

ছবি

লকডাউনের ১৮ কর্মদিবসে জামিন পেলেন ৩১,২০৮ হাজতি

ছবি

করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত নিম্নমুখী

ছবি

আজ ২৫ বৈশাখ

স্বাস্থ্যবিধি না মানলে আমাদের অবস্থা ভারতের চেয়ে খারাপ হবে : স্বাস্থ্যমন্ত্রী

ছবি

দেশে করোনায় মৃত্যু ও শনাক্ত আরও কমল

ছবি

দৌলিতদিয়া ঘটে যাত্রীদের ভিড়

ছবি

বাংলাদেশিদের জন্য মালয়েশিয়া প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা

কলকাতায় আটকেপড়া বাংলাদেশীরা চরম দুর্ভোগে

ভারতকে জরুরি চিকিৎসা সহায়তা দিলো বাংলাদেশ

ছবি

মমতাকে অভিনন্দন শেখ হাসিনার

ছবি

দেশে করোনায় আরও ৪১ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ১৮২২

ছবি

অন্য দেশ থেকে অ্যাস্ট্রাজেনেকার টিকা সংগ্রহের চেষ্টা চলছে

ছবি

ভারত থেকে ৩০, যুক্তরাষ্ট্র থেকে ৪০ লাখ টিকা চাওয়া হয়েছে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ছবি

৮০ কি.মি. বেগে ধেয়ে আসছে ঝড়, ২ নম্বর সংকেত

ছবি

এনটিআরসিএর গণবিজ্ঞপ্তি স্থগিত

ছবি

‘নৌপথকে কার্যকরী করতে ১০ হাজার কিমি নদী খনন করা হবে’

ছবি

এপ্রিলে সড়ক দুর্ঘটনা ৩৯৭টি প্রাণ ঝরলো ৪৫২

ছবি

সারাদেশে নিম্নমানের ভেজাল সেমাই বাজারে

ছবি

সীমান্ত পেরিয়ে হঠাৎ বিপর্যয়ের মুখে নেপাল

tab

জাতীয়

ইলিয়াস আলীর ‘গুম’ নিয়ে আমার বক্তব্য ‘কাটপিস’ করা হয়েছে: মির্জা আব্বাস

সংবাদ :
  • সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট
image
রোববার, ১৮ এপ্রিল ২০২১

বিএনপির সাবেক সংসদ সদস্য এম ইলিয়াস আলী নিখোঁজের ঘটনা নিয়ে তার বক্তব্য কয়েকটি গণমাধ্যমে বিকৃত করে প্রকাশ করা হয়েছে, বলে অভিযোগ করেছেন দলটির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস। তার অভিযোগ, “আমার দেয়া বক্তব্যকে কাটপিস করা হয়েছে।“

আজ রোববার (১৮ এপ্রিল) দুপুরে রাজধানীর শাহজাহানপুরে নিজের বাসায় আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ অভিযোগ করেন।

তিনি বলেন, “আমি গতকাল ইলিয়াস আলীর গুমের বিষয়ে বক্তব্য রেখেছিলাম। আমি বক্তব্য রাখার পর ১ ঘণ্টা সময়ও লাগেনি বিভিন্ন মিডিয়া ফোন করেছে। আমি কি এ কথা বলেছি কিনা, ওই কথা বলেছি কিনা। আমি তো বুঝতেই পারলাম না যে আমি এমন কী কথা বললাম?“

শনিবার এক আলোচনা সভায় মির্জা আব্বাস ইলিয়াস আলীর ‘গুমের’ সঙ্গে আওয়ামী লীগ বা সরকার জড়িত নয় বলে মন্তব্য করেন। ‘গুমের’ পেছনে নিজ দলের কারো সংশ্লিষ্টতারও তিনি ইঙ্গিত দেন বলে বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে খবর প্রকাশিত হয়।

২০১২ সালের ১৭ এপ্রিল ঢাকার মহাখালি এলাকা থেকে গাড়িচালক আনসার আলীসহ নিখোঁজ হন ইলিয়াস আলী। বিএনপি অভিযোগ করে আসছে, তাঁকে সরকারই ‘গুম’ করেছে।

কারো নাম উল্লেখ না করে শনিবারের ঐ সভায় মির্জা আব্বাস বলেন, “ইলিয়াস গুম হওয়ার আগের রাতে দলীয় অফিসে কোনো এক ব্যক্তির সঙ্গে তার বাকবিতন্ডা হয় মারাত্মক রকমের। ইলিয়াস তাদের খুব গালিগালাজ করেছিল। সেই যে পেছন থেকে দংশন করা সাপগুলো আমাদের দলে এখনো রয়ে গেছে।”

দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুলকে উদ্দেশ্যে করে তিনি বলেন, “যদি এদেরকে দল থেকে বিতাড়িত না করেন, তাহলে কোনো পরিস্থিতিতেই দল সামনে এগুতে পারবে না।”

“আমি জানি, বাংলাদেশ সরকার বা আওয়ামী লীগ সরকার ইলিয়াসকে গুম করে নাই। কিন্তু গুমটা করলো কে? এই সরকারের কাছে আমি এটা জানতে চাই,” শনিবার এক ভার্চ্যুয়াল আলোচনা সভায় বলেন মির্জা আব্বাস। সিলেট বিভাগ জাতীয়তাবাদী সংহতি সম্মেলনী–ঢাকার উদ্যোগে ভার্চ্যুয়াল আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন মির্জা ফখরুল।

বিএনপির নীতিনির্ধারণী স্থায়ী কমিটির এই সদস্য আরও বলেন, “একজন জলজ্যান্ত তাজা রাজনৈতিক নেতা গুম হয়ে গেলো দেশের অভ্যন্তর থেকে, আমাদের একজন নেতা সালাহউদ্দিন আহমেদকে দেশ থেকে পাচার করে নিয়ে গেল, আমাদের চৌধুরী আলমকে গুম করে দেয়া হলো, আমাদের কত ছেলেকে গুম করে দেয়া হলো-আমি বুঝলাম এই সরকার করে না। করলো কারা? আমি বলতে চাই, যারা করেছে তারা এদেশের স্বাধীনতা চায় না, তারা এদেশটাকে স্বাধীন সার্বভৌমত্ব থাকতে দেবে না।“

তবে গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদের উল্লেখ করে আজ রোববার বিএনপির এ নেতা বলেন, “সরকার বা আওয়ামী লীগ ইলিয়াসকে গুম করেনি- এ কথা আমি বলিনি। আমার কথাকে বিকৃত করে পেঁচিয়ে লেখা হয়েছে। এছাড়া বিএনপি নেতারাই ইলিয়াস আলীকে গুম করেছে বলেও আমার উদ্ধৃতি দেয়া হয়েছে। আমি বিএনপির স্ট্যান্ডিং কমিটির সদস্য হয়ে এ কথা কি বলা সম্ভব? অর্থাৎ নিজের মাথায় নিজেই বোম ফাটানোর ব্যবস্থা। অর্থাৎ, এটাকেও বিকৃত করা হয়েছে।“

মির্জা আব্বাস বলেন, “আমার বিরুদ্ধে এসব কেন করা হলো আমি জানি না। আমার সহজ সরল বক্তব্যকে বিকৃত করা হয়েছে।“

তিনি বলেন, “সাংবাদিকদের স্বাধীনতা নেই। কিন্তু সংবাদপত্রের স্বাধীনতা আছে, মালিকদের স্বাধীনতা আছে। অবস্থাটা দাঁড়াল, বিএনপির বিরুদ্ধে যা খুশি লিখতে পারবে কিন্তু আওয়ামী লীগের বিপক্ষে একটা কথাও বলা যাবে না।“

নিজের সেই বক্তব্যের ব্যাখ্যায় আব্বাস বলেন, “আমি এমন কোনো কথা বলিনি, যাতে দেশের কাছে, জাতির কাছে, দলের কাছে আমার বিব্রতকর পরিস্থিতির মুখে পড়তে হবে। আমার বক্তব্যকে অনেকে হয়তো বুঝে উঠতে পারেননি। আমার বক্তব্যকে যে যার মতো মনের মাধুরি মিশিয়ে লিখেছে। এর সঙ্গে আমার কোনো সম্পৃক্ততা নেই। এজন্য আমি বা আমার দল দায়-দায়িত্ব বহন করি না। আমি যা বলেছি, আমার সংগঠনের ভালোর জন্য বলেছি। আমি যা বলেছি, ইলিয়াসকে স্মরণ করেই বলেছি। আমার বক্তব্যে আমি যা বলেছিলাম, আশা করি আজ তা বুঝাতে সক্ষম হয়েছি।“

back to top