alt

সারাদেশ

আত্মীয়-স্বজনের মধ্যে আমিই প্রথম ডাক্তার হতে চলেছি: মুনতাকা সর্বা

প্রতিনিধি, কিশোরগঞ্জ : সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

২০২৩-২৪ সেশনের এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষা জাতীয় মেধায় প্রথম স্থান অর্জন করেছেন তানজিম মুনতাকা সর্বা। তিনি রাজধানীর হলিক্রস স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থী। ভবিষ্যতে সর্বা যেন একজন মানবিক চিকিৎসক হন আশা পরিবারের।

মেডিকেলে প্রথম হওয়ায় উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে তানজিম মুনতাকা সর্বা বলেন, আমাদের আত্মীয়-স্বজনের মধ্যে আমি প্রথম ডাক্তার হতে যাচ্ছি। আত্মীয়-স্বজনদের মধ্যে কেউ ডাক্তার নেই। ডাক্তার হতে চাওয়ার এটাও একটি অন্যতম কারণ। এছাড়া ডাক্তার হওয়ার জন্য আমার শিক্ষকরাও পরামর্শ দিতেন। তাদের পরামর্শেই ডাক্তার হওয়ার স্বপ্ন দেখেছি। এমবিবিএস শেষ হলে পরিস্থিতি অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নেবো কোনো বিষয়ে ডাক্তার হবো।

এমন সফলতার পেছনে কার বেশি অবদান এমন প্রশ্নে সর্বা বলেন, আমার সফলতার পেছনে বাবা-মায়ের ও শিক্ষকদের অবদান সবচেয়ে বেশি। তারা আমাকে অনেক বেশি সহযোগিতা করেছেন। ব্যক্তিগত জীবনে বাবা-মায়েই আমার সবচেয়ে বড় অনুপ্রেরণা। সব বিষয়েই আমি তাদের সাপোর্ট পেয়েছি। মেডিকেল ভর্তির প্রস্তুতির সময় যখন হতাশায় থাকতাম, তখন বাবা-মা এমনভাবে আত্মবিশ্বাস দিতেন সব ঠিক হয়ে যেতো। তাই বলতে পারি আব্বু-আম্মুর সহযোগিতাই আমাকে মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষায় প্রথম হওয়া সুযোগ তৈরি করে দিয়েছে।

সর্বা বলেন, আমার এমন ভালো ফলাফল অর্জনে শিক্ষক ও প্রতিষ্ঠানের ভূমিকাও কম নয়। এ কথা বলে শেষ করা যাবে না। তাদের সাপোর্ট পেয়েছি ফুলটাইম। হলিক্রসে যেভাবে আমাদের পড়াশোনা ও পরীক্ষা নিয়েছে, দ্রুতই সিলেবাস শেষ হয়ে গেছে। এছাড়া ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজে পড়াশোনার সময়ও আমি অনুপ্রেরণা পেয়েছি।

তানজিম মুনতাকা সর্বা ১০০ নম্বরের ১ ঘণ্টার এমসিকিউ পরীক্ষায় অংশ নিয়ে ৯২.৫ নম্বর পেয়ে দেশসেরা হয়েছেন। তানজিম সর্বা এর এমন সাফল্যে পরিবার ও এলাকাবাসীর মধ্যে আনন্দ বিরাজ করছে।

রোববার (১১ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতরের সভাকক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে পরীক্ষার ফল ঘোষণা করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী অধ্যাপক ডা. সামন্ত লাল সেন।

তানজিম মুনতাকা সর্বা কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী পৌরসভার বেথইর গ্রামের ইঞ্জিনিয়ার আব্দুর রহমান (সবুজ) ও গৃহিণী চায়না বেগম দম্পতির বড় মেয়ে। দুই বোন ও এক ভাইয়ের মধ্যে সে বড়। তানজিম মুনতাকা সর্বা ভিকারুননিসা নূন স্কুল থেকে এসএসসি ও হলিক্রস কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেছেন।

সর্বা বাবা আব্দুর রহমান (সবুজ) বলেন, আমি সিভিল ইঞ্জিনিয়ার। একটি কোম্পানির অ্যাডভাইজার হিসেবে কর্মরত রয়েছি। পরিবার নিয়ে রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় বসবাস করি। সর্বা ঢাকায় বড় হয়েছে। তার এমন সাফল্যে আমরা উচ্ছ্বাসিত। মেয়ের জন্য সবায় দোয়া করবেন, ভবিষ্যতে সে যেন একজন মানবিক ডাক্তার হতে পারে।

তানজিম মুনতাকা সর্বা চাচা ৯নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলী হোসেম জানান, আমার ভাতিজি তানজিম সর্বার এমন সাফল্যে আমরা গর্বিত। ওর সাফল্যের খবরে পরিবার ও এলাকায় আনন্দের বন্যা বইছে।

ছবি

৮ মাস ধরে পলিথিনে বন্দি অ্যাম্বুলেন্স, ভোগান্তিতে রোগীরা

ছবি

গাজীপুর সিটি করপোরেশনের গাড়িচাপায় শ্রমিক নিহত, মহাসড়ক অবরোধ-ভাঙচুর

ছবি

রাজধানীতে মোটরসাইকেলের নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে ৩ জন নিহত

ছবি

মুন্সিগঞ্জে হত্যা মামলার আসামী রফিকুল গ্রেপ্তার

ছবি

সাতক্ষীরা নদী থেকে বিএসএফ সদস্যের মরদেহ উদ্ধার

ছবি

মাতৃভাষা রক্ষায় অন্যরকম সংগ্রাম অন্তর হাজংয়ের

ছবি

প্রথমবারের মতো ভারত থেকে এলো ৫০ মেট্রিক টন নারিকেল

ছবি

চিনির দাম বাড়ানোর কয়েক ঘণ্টা পর সিদ্ধান্ত বাতিল

ছবি

মায়ের জানাজায় ইতালি থেকে এসে নিজেই লাশ হলেন শাহ আলম

ছবি

নরসিংদীতে কলেজ ছাত্র নিহত

ছবি

অবসরের ৬ মাসের মধ্যে এমপিওভুক্ত শিক্ষক-কর্মচারীদেরকে ভাতা দেওয়ার নির্দেশ

৯ রোহিঙ্গাকে অনুপ্রবেশের সময় মায়ানমারে ফেরত পাঠাল বিজিবি

ছবি

নোয়াখালীতে খৎনায় ভুল, অতিরিক্ত রক্তপাতে সংকটে শিশুর স্বাস্থ্য

ছবি

রাজধানীর আকাশ মেঘলা আকাশ, কয়েকটি স্থানে বৃষ্টির পূর্বাভাস

ছবি

রাজবাড়ীর শহীদ মিনারে বেদির ফুল নি‌য়ে যাওয়ার ভি‌ডিও ধারণ, সাংবাদিককে মারধর

ছবি

রাজবাড়ীর শহীদ মিনারে বেদির ফুল নি‌য়ে যাওয়ার ভি‌ডিও ধারণ, সাংবাদিককে মারধর

ছবি

গাজীপুরে নিখোঁজ মাদ্রাসা ছাত্রের লাশ উদ্ধার

ছবি

বারি’তে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপিত হয়েছে

ছবি

শহীদ মিনার থেকে ফুল দিয়ে ফেরার পথে যুবলীগ নেতাকে কুপিয়ে হত্যা

ছবি

১ কোটি ৬০ লাখ টাকা মূল্যের সোনাসহ এক যাত্রী আটক

ছবি

গাজীপুরে নদী থেকে নিখোঁজ মাদরাসা ছাত্রের লাশ উদ্ধার

ছবি

বরিশালে নিজের ফাঁদে প্রাণ গেল কৃষকের

দুই মেয়েকে বিষ পান করিয়ে মায়েরও বিষ পান, মায়ের মৃত্যু

ছবি

পর্যটকবাহী বাস-পিকআপ সংঘর্ষে দুই নারী নিহত, আহত ১৫

ছবি

টেকনাফ সীমান্তে ফের গোলাগুলির শব্দ, আতঙ্কে সাধারণ মানুষ

ছবি

ফুল দেয়া নিয়ে মৌলভীবাজারে শহীদ মিনারে বাক-বিতন্ডা

ছবি

বারি ও মদিনা টেক এর মধ্যে সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর

ছবি

গাজীপু‌রে সোয়া লাখ পিস ইয়াব উদ্ধার, আটক ৪ মাদক কারবারী

ছবি

গাজীপুরে কারখানা শ্রমিকদের মাঝে নিত্যপণ্য সামগ্রী বিতরণ

ছবি

নওগাঁয় ভয়াবহ ‘প্রক্সিকাণ্ড’ ৫৯ দাখিল পরীক্ষার্থীই ভুয়া

ছবি

অস্ত্রসহ পালিয়ে আসা রোহিঙ্গারা গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছে : পুলিশ

ছবি

উপজেলা নির্বাচনে জামানত ‘বহুগুণ’ বাড়াতে চায় ইসি

ছবি

নগরীর সমস্যা নিয়ে পোস্টার: কবি ও গ্রাফিক ডিজাইনার শামীম কারাগারে

ছবি

চাঁপাইনবাবগঞ্জে স্কুলছাত্র হত্যায় দুজনের যাবজ্জীবন

ছবি

দাখিল পরীক্ষা দিচ্ছিল অন্যের হয়ে, নওগাঁয় ৫৯ জন আটক

ছবি

কক্সবাজারের সুগন্ধ্যা বীচের নতুন নাম ‘বঙ্গবন্ধু বীচ’

tab

সারাদেশ

আত্মীয়-স্বজনের মধ্যে আমিই প্রথম ডাক্তার হতে চলেছি: মুনতাকা সর্বা

প্রতিনিধি, কিশোরগঞ্জ

সোমবার, ১২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

২০২৩-২৪ সেশনের এমবিবিএস ভর্তি পরীক্ষা জাতীয় মেধায় প্রথম স্থান অর্জন করেছেন তানজিম মুনতাকা সর্বা। তিনি রাজধানীর হলিক্রস স্কুল অ্যান্ড কলেজের শিক্ষার্থী। ভবিষ্যতে সর্বা যেন একজন মানবিক চিকিৎসক হন আশা পরিবারের।

মেডিকেলে প্রথম হওয়ায় উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে তানজিম মুনতাকা সর্বা বলেন, আমাদের আত্মীয়-স্বজনের মধ্যে আমি প্রথম ডাক্তার হতে যাচ্ছি। আত্মীয়-স্বজনদের মধ্যে কেউ ডাক্তার নেই। ডাক্তার হতে চাওয়ার এটাও একটি অন্যতম কারণ। এছাড়া ডাক্তার হওয়ার জন্য আমার শিক্ষকরাও পরামর্শ দিতেন। তাদের পরামর্শেই ডাক্তার হওয়ার স্বপ্ন দেখেছি। এমবিবিএস শেষ হলে পরিস্থিতি অনুযায়ী সিদ্ধান্ত নেবো কোনো বিষয়ে ডাক্তার হবো।

এমন সফলতার পেছনে কার বেশি অবদান এমন প্রশ্নে সর্বা বলেন, আমার সফলতার পেছনে বাবা-মায়ের ও শিক্ষকদের অবদান সবচেয়ে বেশি। তারা আমাকে অনেক বেশি সহযোগিতা করেছেন। ব্যক্তিগত জীবনে বাবা-মায়েই আমার সবচেয়ে বড় অনুপ্রেরণা। সব বিষয়েই আমি তাদের সাপোর্ট পেয়েছি। মেডিকেল ভর্তির প্রস্তুতির সময় যখন হতাশায় থাকতাম, তখন বাবা-মা এমনভাবে আত্মবিশ্বাস দিতেন সব ঠিক হয়ে যেতো। তাই বলতে পারি আব্বু-আম্মুর সহযোগিতাই আমাকে মেডিকেলে ভর্তি পরীক্ষায় প্রথম হওয়া সুযোগ তৈরি করে দিয়েছে।

সর্বা বলেন, আমার এমন ভালো ফলাফল অর্জনে শিক্ষক ও প্রতিষ্ঠানের ভূমিকাও কম নয়। এ কথা বলে শেষ করা যাবে না। তাদের সাপোর্ট পেয়েছি ফুলটাইম। হলিক্রসে যেভাবে আমাদের পড়াশোনা ও পরীক্ষা নিয়েছে, দ্রুতই সিলেবাস শেষ হয়ে গেছে। এছাড়া ভিকারুননিসা নূন স্কুল অ্যান্ড কলেজে পড়াশোনার সময়ও আমি অনুপ্রেরণা পেয়েছি।

তানজিম মুনতাকা সর্বা ১০০ নম্বরের ১ ঘণ্টার এমসিকিউ পরীক্ষায় অংশ নিয়ে ৯২.৫ নম্বর পেয়ে দেশসেরা হয়েছেন। তানজিম সর্বা এর এমন সাফল্যে পরিবার ও এলাকাবাসীর মধ্যে আনন্দ বিরাজ করছে।

রোববার (১১ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতরের সভাকক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে পরীক্ষার ফল ঘোষণা করেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী অধ্যাপক ডা. সামন্ত লাল সেন।

তানজিম মুনতাকা সর্বা কিশোরগঞ্জের কটিয়াদী পৌরসভার বেথইর গ্রামের ইঞ্জিনিয়ার আব্দুর রহমান (সবুজ) ও গৃহিণী চায়না বেগম দম্পতির বড় মেয়ে। দুই বোন ও এক ভাইয়ের মধ্যে সে বড়। তানজিম মুনতাকা সর্বা ভিকারুননিসা নূন স্কুল থেকে এসএসসি ও হলিক্রস কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করেছেন।

সর্বা বাবা আব্দুর রহমান (সবুজ) বলেন, আমি সিভিল ইঞ্জিনিয়ার। একটি কোম্পানির অ্যাডভাইজার হিসেবে কর্মরত রয়েছি। পরিবার নিয়ে রাজধানীর বসুন্ধরা আবাসিক এলাকায় বসবাস করি। সর্বা ঢাকায় বড় হয়েছে। তার এমন সাফল্যে আমরা উচ্ছ্বাসিত। মেয়ের জন্য সবায় দোয়া করবেন, ভবিষ্যতে সে যেন একজন মানবিক ডাক্তার হতে পারে।

তানজিম মুনতাকা সর্বা চাচা ৯নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আলী হোসেম জানান, আমার ভাতিজি তানজিম সর্বার এমন সাফল্যে আমরা গর্বিত। ওর সাফল্যের খবরে পরিবার ও এলাকায় আনন্দের বন্যা বইছে।

back to top