alt

সারাদেশ

ঢাকায় বিশ্ব ব্যাংকের এমডি

‘উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমানোর পথ খোঁজার তাগিদ’

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক : রোববার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

বাংলাদেশে এক বছরেরও বেশি সময় ধরে বাংলাদেশে মূল্যস্ফীতি ১০ শতাংশের কাছাকাছি। এ কারণে স্বল্প আয়ের মানুষের জীবন হয়ে গেছে কঠিন। এ পরিস্থিতিতে উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমানোর পথ খোঁজার তাগিদ দিয়েছেন ঢাকায় সফররত বিশ্ব ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (অপারেশন) আনা বেয়ার্দ।

দেশে মূল্যস্ফীতি এক বছর ধরেই ১০ শতাংশের কাছাকাছি। চলতি অর্থবছরে সরকারের লক্ষ্য তা ৬ এ সীমিত রাখা। তবে অর্থমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী বলেছেন, এটি রাতারাতি কমানো সম্ভব নয়।

আজ রোববার সকালে শেরেবাংলা নগরের অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগে (ইআরডি) অর্থমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী ও বিশ্ব ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের বৈঠকে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক সংস্কার ও সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতা বাড়ানোর পরামর্শও উঠে এসেছে। মূল্যস্ফীতি কমানোর লড়াইয়ে বিশ্ব ব্যাংক সহযোগিতা করবে বলেও আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।

বৈঠক শেষে আনা বেয়ার্দ বলেন, বৈঠকে আমরা বাংলাদেশে চলমান উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমিয়ে আনার ওপর সবচেয়ে বেশি জোর দিয়েছি। চলমান অর্থনৈতিক পরিস্থিতিতে বাংলাদেশের কিছু সংস্কার দরকার বলে আমরা মনে করছি। বিশেষ করে পৃথিবীর অন্যান্য দেশের মতই বাংলাদেশকে অবশ্যই মূল্যস্ফীতি মোকাবিলায় মনোযোগী হতে হবে এবং মূল্যস্ফীতি কীভাবে কমানো যায় সেই পথ তৈরি করতে হবে।

বেয়ার্দ বলেন, মূল্যস্ফীতি কমাতে বিশ্ব ব্যাংকও প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করবে। কোন কোন বিষয়ে সহযোগিতা দরকার হবে, তা আমাদের দুই পক্ষের মূল্যায়নেই নির্ধারণ করতে হবে।

তিনি বলেন, যেসব মানুষ মূল্যস্ফীতিতে বেশি আক্রান্ত, তাদের সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতায় আনার পরামর্শ দিয়েছি আমরা।

পরে অর্থমন্ত্রী বলেন, উচ্চ মূল্যস্ফীতির চাপ মোকাবেলার সকল ধরনের চেষ্টা করে যাচ্ছে। তার সুফলও পাওয়া যাবে। রাতারাতি কিছু করা সম্ভব নয়, আমাদের অপেক্ষা করতে হবে। কারণ, মূল্যস্ফীতি রাতারাতি কমবে না। রমজানের পর থেকে বিশেষ করে মে জুন মাসের দিকে কমে আসবে বলে আমরা আশা করছি।

ছবি

অপহ্নত পল্লী চিকিৎসকসহ ২ জনকে উদ্ধার

ছবি

কুমিল্লায় ছাত্রদল নেতা পারভেজ হত্যায় ১৪ জনের যাবজ্জীবন

সম্পত্তি লিখে না দেয়ায় পিতাকে কুপিয়ে জখম, মা আহত

ছবি

জামালপুরে সরকারী খাস জমিতে পুকুর খনন করে ইট ভাটায় মাটি বিক্রি

নারায়ণগঞ্জে নিজের মাথায় গুলি চালিয়ে তরুণ আনসার সদস্যের ‘আত্মহত্যা’

ছবি

কেএনএফ সংশ্লিষ্টতার সন্দেহে আরও ৩ নারী গ্রেপ্তার

ছবি

নাফনদীতে ২ বাংলাদেশি জেলেকে গুলি : মায়ানমারের বিজিপির কাছে প্রতিবাদ জানালো বিজিবি

রামুর গর্জনিয়ায় সশস্ত্র সন্ত্রাসীদের গুলি ও দায়ের কোপে পিতা-পুত্র নিহত

নোয়াখালীর চৌমুহনীতে এসির আগুনে পুড়ল ২৫ দোকান

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশি যুবক নিহত

ছবি

সুইমিং পুলে গোসল করতে নেমে ঢাবি শিক্ষার্থীর মৃত্যু

ছবি

তীব্র দাবদাহে বৃষ্টির আশায় ইস্তিসকার নামাজ আদায়

ছবি

মনোহরদীতে ১৬ জনের মনোনয়নপত্র দাখিল

ছবি

‘ডাকাতদলের’ আক্রমণে পিতা-পুত্র নিহত

ছবি

ব্রাহ্মণবাড়িয়া সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশি যুবক নিহত

ছবি

টেকনাফে সিএনজি থামিয়ে চিকিৎসকসহ দুই যাত্রীকে অপহরণ

ছবি

গাছে ধাক্কা লেগে উড়ে গেলো বাসের ছাদ, যাত্রী নিহত

তীব্র তাপপ্রবাহে চুনারুঘাটে দিশেহারা মানুষ, হাসপাতালে রোগীর চাপ

ছবি

পদ্মায় গোসলে নেমে স্কুল শিক্ষার্থীসহ ২ জনের মৃত্যু

ছবি

স্মার্ট বাংলাদেশ বিনির্মাণে ত্রিপুরা সম্প্রদায়কে ঐক্যবদ্ধ হওয়ার আহ্বান কুজেন্দ্র লাল ত্রিপুরার

ছবি

নারায়ণগঞ্জে বকেয়ার দাবিতে বিক্ষোভ, শ্রমিক-পুলিশ সংঘর্ষ

হিট স্ট্রোকে হবিগঞ্জের রিকশা চালকের মৃত্যু

ছবি

শ্রীপুরে তালাবদ্ধ ঘরে নারীর গলাকাটা লাশ

বগুড়ায় মৌসুমের সর্বোচ্চ তাপমাত্রা, জনজীবন দুর্বিষহ

ছবি

সীমান্তে আর কোন অনুপ্রবেশ করতে দেয়া হবে না

ছবি

প্রাথমিকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগ, তৃতীয় ধাপের ফল প্রকাশ

ছবি

বৃষ্টির খানিক সম্ভাবনা, তবে ‘পাওয়া যাবে না’ স্বস্তি

ছবি

কিশোরগঞ্জের পাগলা মসজিদের দানবাক্সে মিলেছে রেকর্ড পরিমাণ টাকা ও স্বর্ণালংকার

ছবি

মায়ানমার থেকে ছোঁড়া গুলিতে ২ বাংলাদেশি জেলে গুলিবিদ্ধ

ছবি

নির্বাচন থেকে সরে দাঁড়ানোর ঘোষণা দিলেন পলকের শ্যালক

ছবি

রংপুরে সাবেক বিএনপি নেতার গণসংযোগে আ.লীগ এমপি, নেতাকর্মীদের ক্ষোভ

ছবি

ঢাকা কেন্দ্রীয় কারাগারে অসুস্থ হয়ে কয়েদির মৃত্যু

ছবি

আজ সন্ধ্যায় দুবাই পৌঁছাবে ২৩ নাবিকসহ এমভি আবদুল্লাহ জাহাজ

অনলাইন ক্যাসিনোর ‘হোতা’ সেলিমের অভিযোগ সাবেক সেনা প্রধানের ভাইদের বিরুদ্ধে

ছবি

তীব্র গরমে চু্য়াডাঙ্গা ও পাবনায় ২ জনের মৃত্যু

ছবি

স্বামীর পুরুষ অঙ্গ কেটে আত্মহত্যা করলেন স্ত্রী

tab

সারাদেশ

ঢাকায় বিশ্ব ব্যাংকের এমডি

‘উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমানোর পথ খোঁজার তাগিদ’

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

রোববার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

বাংলাদেশে এক বছরেরও বেশি সময় ধরে বাংলাদেশে মূল্যস্ফীতি ১০ শতাংশের কাছাকাছি। এ কারণে স্বল্প আয়ের মানুষের জীবন হয়ে গেছে কঠিন। এ পরিস্থিতিতে উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমানোর পথ খোঁজার তাগিদ দিয়েছেন ঢাকায় সফররত বিশ্ব ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক (অপারেশন) আনা বেয়ার্দ।

দেশে মূল্যস্ফীতি এক বছর ধরেই ১০ শতাংশের কাছাকাছি। চলতি অর্থবছরে সরকারের লক্ষ্য তা ৬ এ সীমিত রাখা। তবে অর্থমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী বলেছেন, এটি রাতারাতি কমানো সম্ভব নয়।

আজ রোববার সকালে শেরেবাংলা নগরের অর্থনৈতিক সম্পর্ক বিভাগে (ইআরডি) অর্থমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী ও বিশ্ব ব্যাংকের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের বৈঠকে বাংলাদেশের অর্থনৈতিক সংস্কার ও সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতা বাড়ানোর পরামর্শও উঠে এসেছে। মূল্যস্ফীতি কমানোর লড়াইয়ে বিশ্ব ব্যাংক সহযোগিতা করবে বলেও আশ্বাস দেওয়া হয়েছে।

বৈঠক শেষে আনা বেয়ার্দ বলেন, বৈঠকে আমরা বাংলাদেশে চলমান উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমিয়ে আনার ওপর সবচেয়ে বেশি জোর দিয়েছি। চলমান অর্থনৈতিক পরিস্থিতিতে বাংলাদেশের কিছু সংস্কার দরকার বলে আমরা মনে করছি। বিশেষ করে পৃথিবীর অন্যান্য দেশের মতই বাংলাদেশকে অবশ্যই মূল্যস্ফীতি মোকাবিলায় মনোযোগী হতে হবে এবং মূল্যস্ফীতি কীভাবে কমানো যায় সেই পথ তৈরি করতে হবে।

বেয়ার্দ বলেন, মূল্যস্ফীতি কমাতে বিশ্ব ব্যাংকও প্রয়োজনীয় সহযোগিতা করবে। কোন কোন বিষয়ে সহযোগিতা দরকার হবে, তা আমাদের দুই পক্ষের মূল্যায়নেই নির্ধারণ করতে হবে।

তিনি বলেন, যেসব মানুষ মূল্যস্ফীতিতে বেশি আক্রান্ত, তাদের সামাজিক নিরাপত্তা বেষ্টনীর আওতায় আনার পরামর্শ দিয়েছি আমরা।

পরে অর্থমন্ত্রী বলেন, উচ্চ মূল্যস্ফীতির চাপ মোকাবেলার সকল ধরনের চেষ্টা করে যাচ্ছে। তার সুফলও পাওয়া যাবে। রাতারাতি কিছু করা সম্ভব নয়, আমাদের অপেক্ষা করতে হবে। কারণ, মূল্যস্ফীতি রাতারাতি কমবে না। রমজানের পর থেকে বিশেষ করে মে জুন মাসের দিকে কমে আসবে বলে আমরা আশা করছি।

back to top