alt

সারাদেশ

সমুদ্রের ইলিশ ফেনী নদীর বলে বিক্রি হচ্ছে!

প্রতিনিধি, ফেনী : মঙ্গলবার, ১৬ আগস্ট ২০২২

ফেনীর সোনাগাজী ও নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার সমুদ্র উপকূলে মৌসুমে ধরা পড়া ইলিশ ফেনী নদীর বলে বিক্রি হচ্ছে।

ধরা পড়া ইলিশগুলো বড় ফেনী ও ছোট ফেনী নদীর শেষ প্রান্তে বঙ্গোপসাগরের মোহনা থেকে ধরা হয় বলে জানায় স্থানীয় জেলেরা। আর পরিমাণে কম এমন ইলিশ মৌসুমে মাঝে মাঝেই ধরা পড়ে।

জেলেরা সোনাগাজী উপজেলার হলেও ইলিশগুলো সমুদ্রের, ফেনী নদীর নয়। তবে তা ফেনী নদীর শেষে সাগরের মোহনার কাছাকাছি।

সরেজমিন দেখা যায়, সোনাগাজী পৌর বাজারের ইলিশগুলো মূলত পার্শ্ববর্তী নোয়াখালী জেলার কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার মুছাপুর আড়ত থেকে আসা। বেশির ভাগ ইলিশ আসে সন্দ্বীপ থেকে। অল্পসংখ্যক ইলশি ধরা পড়ে মুছাপুর এলাকার কাছাকাছি সমুদ্র থকে। ফলে সহজে বুঝা যায়, ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার বাজার দখল করে আছে সন্দ্বীপ থেকে আসা ইলিশ।

ভৌগোলিকভাবে দেখা যায়, ফেনী জেলার ওপর দিয়ে বয়ে চলা বড় ফেনী নদীটি সোনাগাজী উপজেলার মুহুরী প্রজেক্ট এলাকায় নির্মিত বাঁধের নিচ দিয়ে গিয়ে সমুদ্রে মিশেছে।

বাঁধ থেকে ফেনী নদীর শাখা বঙ্গোপসাগরে মিশেছে, যা ট্রলারে যেতে ঘণ্টাখানেক লাগে। বাঁধের পর থেকে এ বিস্তর চরাঞ্চলের মাঝে ফেনী নদীর ধারা বয়ে চললেও, সাগরের জোয়ারে ফেনী নদীসহ এ চরাঞ্চল ডুবে যায়।

সোনাগাজীর চরখোন্দকার এলাকাসহ অন্য এলাকার জেলেরা এক থেকে দেড় ঘণ্টা ট্রলারের পথ পাড়ি দয়িে সাগরের মোহনায় মাছ ধরে। এসব ইলিশ ও সন্দ্বীপের ইলিশ সোনাগাজী পৌর শহর ও ফেনীতে বিক্রি হচ্ছে।

স্থানীয়রা জানায়, প্রায় ১৫ বছর আগে এখানে প্রচুর ইলিশ ধরা পড়তো। মাঝখানে ইলশি কম ধরা পড়ে। চলতি মৌসুমে কছিু কছিু ইলিশ ধরা পড়ছে। সংখ্যায় কম হলওে, আকারের দিক থেকে এসব ইলিশ ছোট ও বড় আকারের।

সোনাগাজীর চরখন্দকার জেলেপাড়ার জলেে হরদিাস জানান, এখান থকেে ট্রলারে মোহনায় যতেে প্রায় ঘণ্টাখানকে লাগে। সাগরে অন্য মাছরে সঙ্গে মৌসুমে কছিু কছিু ইলশিও ধরা পড়ছে।

তবে এগুলোকে ফনেী নদীর ইলশি মাছ বলা ঠকি হবে না। নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জরে মুছাপুর ক্লোজাররে অদূরে সোনাগাজীর আর্দশ গ্রাম এলাকায় অল্পসংখ্যক জলেে রয়েছে। তারাও সখোন থকেে অনকে দূরে সাগরে গয়িে মাছ ধরে।

তিনি আরও জানান, আগে জলদস্যুর ভয়ে জেলেরা সাগরের মোহনার দিকে যেতে ভয় পেতেন। এখন জলদস্যুর ভয় কমে গেছে।অন্য জেলে সমর বলেন, আগে স্থানীয় জেলেরা সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ ধরত। বর্তমানে তারা সচেতন হয়েছে।

সোনাগাজী উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা তূর্য সাহা বলেন, এখানে আগে ইলিশ আরও কম পাওয়া যতে। সম্প্রতি কছিু ইলশি ধরা পড়ছে।

হাত-পা বাঁধা টমটম চালকের লাশ উদ্ধার

চট্টগ্রামে ৫০টি অবৈধ দোকান উচ্ছেদ

পটিয়ায় সন্ত্রাসীদের গুলিতে কৃষক নিহত

রাজশাহীতে হঠাৎ বাড়ছে ‘চোখ ওঠা’ রোগের প্রাদুর্ভাব বৃদ্ধি

একহাজার টাকা পুঁজির কেঁচো সারের খামারে লাখপতি যুবক

নেত্রকোনায় অবহিতকরণ কর্মশালা

অপহরণ করে মুক্তিপণ পত্নীতলা থেকে ৫ অপহরণকারী আটক

উখিয়ায় আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের সক্রিয় সদস্য গ্রেপ্তার

ব্রক্ষপুত্র থেকে অজ্ঞাত কিশোরীর লাশ উদ্ধার

ছবি

ভোলায় প্রতীকী পুলিশ সপুার ইফরাত জাহান ইশান

ছবি

শৈলকুপায় মন্দিরে প্রতিমা ভাঙচুর, মামলা দায়ের

ছবি

টেকনাফে আবারও কিশোর অপহরণ, পালাতে গিয়ে পানচাষি গুলিবিদ্ধ

চাঁদপুরে মা ইলিশ সংরক্ষণ অভিযান উপলক্ষ্যে নৌ র‍্যালি অনুষ্ঠিত

ছবি

পার্কিংয়ের সময় কভার্ডভ্যান উল্টে নিহত চালক

ছবি

গোপালগঞ্জে গাছের সঙ্গে বাসের ধাক্কা, পুলিশসহ প্রাণ গেল ৪ জনের

ডেঙ্গু : একদিনে সর্বোচ্চ ভর্তি ৬৩৭, আক্রান্ত ১৮ হাজার পার

সেই নিলয় বলছে, ভুল করেছি, আমার মতো ভুল যেন কেউ না করে

ছবি

রংপুরে বিএনপির কালো পতাকা নিয়ে বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের বাঁধা

রাজশাহীতে চোখ ওঠা রোগের প্রাদুর্ভাব

ছবি

সড়ক আছে সেতু আছে সংযোগ নেই, ভোগান্তিতে এলাকাবাসী

অপহরণ করে মুক্তিপন দাবি: পত্নীতলা থেকে ৫ অপহরণকারী আটক

পাথরঘাটায় জেলাপরিষদ নির্বাচনকে কেন্দ্র করে পাল্টা-পাল্টি সংবাদ সম্মেলন

ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর কৃষ্টি কালচারকে ধরে রাখতে হবে: খাদ্যমন্ত্রী

ছবি

ফরিদপুরের শ্রেষ্ঠ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নির্বাচিত আশিকৃুর রহমান

ছবি

খাদ্য নালীতে ‘মায়ের দুধ’ আটকে ১০ মাস বয়সী শিশুর মৃত্যু

ছবি

তালার শালিখা নদী থেকে অজ্ঞাত নারীর লাশ উদ্ধার

ছবি

ক্ষুদ্র নৃ-গোষ্ঠীর কৃষ্টি কালচারকে ধরে রাখতে হবে: খাদ্যমন্ত্রী

ছবি

বিকল্প পথে পর্যটকবাহী জাহাজ চালাতে চায় স্কোয়াব ও টুয়াক

ছবি

রংপুরে মার্কেটের ভবন ও বৈদ্যুতিক ব্যবস্থা সংস্কারের দাবিতে ধর্মঘট, বিক্ষোভ

নোয়াখালীতে পুকুর থেকে যুবতীর লাশ উদ্ধার

ছবি

প্রথম দিনে শতাধিক পর্যটক অসুস্থ : হতাশ ব্যবসায়ীরা

ছবি

প্রচার-প্রচারণায় মুখর সৈয়দপুর

শেরপুরে প্রাথমিকে শ্রেষ্ঠ শিক্ষক শামীম

কুয়াকাটা সৈকতে শুশক প্রজাতির মৃত ডলফিন

বান্দরবানে মায়ানমারের গুপ্তচর সন্দেহে ২ যুবক আটক

ছবি

উত্তরবঙ্গের ১১৭ খেয়াঘাট নারী ও প্রতিবন্ধীবান্ধব নয়

tab

সারাদেশ

সমুদ্রের ইলিশ ফেনী নদীর বলে বিক্রি হচ্ছে!

প্রতিনিধি, ফেনী

মঙ্গলবার, ১৬ আগস্ট ২০২২

ফেনীর সোনাগাজী ও নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার সমুদ্র উপকূলে মৌসুমে ধরা পড়া ইলিশ ফেনী নদীর বলে বিক্রি হচ্ছে।

ধরা পড়া ইলিশগুলো বড় ফেনী ও ছোট ফেনী নদীর শেষ প্রান্তে বঙ্গোপসাগরের মোহনা থেকে ধরা হয় বলে জানায় স্থানীয় জেলেরা। আর পরিমাণে কম এমন ইলিশ মৌসুমে মাঝে মাঝেই ধরা পড়ে।

জেলেরা সোনাগাজী উপজেলার হলেও ইলিশগুলো সমুদ্রের, ফেনী নদীর নয়। তবে তা ফেনী নদীর শেষে সাগরের মোহনার কাছাকাছি।

সরেজমিন দেখা যায়, সোনাগাজী পৌর বাজারের ইলিশগুলো মূলত পার্শ্ববর্তী নোয়াখালী জেলার কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার মুছাপুর আড়ত থেকে আসা। বেশির ভাগ ইলিশ আসে সন্দ্বীপ থেকে। অল্পসংখ্যক ইলশি ধরা পড়ে মুছাপুর এলাকার কাছাকাছি সমুদ্র থকে। ফলে সহজে বুঝা যায়, ফেনীর সোনাগাজী উপজেলার বাজার দখল করে আছে সন্দ্বীপ থেকে আসা ইলিশ।

ভৌগোলিকভাবে দেখা যায়, ফেনী জেলার ওপর দিয়ে বয়ে চলা বড় ফেনী নদীটি সোনাগাজী উপজেলার মুহুরী প্রজেক্ট এলাকায় নির্মিত বাঁধের নিচ দিয়ে গিয়ে সমুদ্রে মিশেছে।

বাঁধ থেকে ফেনী নদীর শাখা বঙ্গোপসাগরে মিশেছে, যা ট্রলারে যেতে ঘণ্টাখানেক লাগে। বাঁধের পর থেকে এ বিস্তর চরাঞ্চলের মাঝে ফেনী নদীর ধারা বয়ে চললেও, সাগরের জোয়ারে ফেনী নদীসহ এ চরাঞ্চল ডুবে যায়।

সোনাগাজীর চরখোন্দকার এলাকাসহ অন্য এলাকার জেলেরা এক থেকে দেড় ঘণ্টা ট্রলারের পথ পাড়ি দয়িে সাগরের মোহনায় মাছ ধরে। এসব ইলিশ ও সন্দ্বীপের ইলিশ সোনাগাজী পৌর শহর ও ফেনীতে বিক্রি হচ্ছে।

স্থানীয়রা জানায়, প্রায় ১৫ বছর আগে এখানে প্রচুর ইলিশ ধরা পড়তো। মাঝখানে ইলশি কম ধরা পড়ে। চলতি মৌসুমে কছিু কছিু ইলিশ ধরা পড়ছে। সংখ্যায় কম হলওে, আকারের দিক থেকে এসব ইলিশ ছোট ও বড় আকারের।

সোনাগাজীর চরখন্দকার জেলেপাড়ার জলেে হরদিাস জানান, এখান থকেে ট্রলারে মোহনায় যতেে প্রায় ঘণ্টাখানকে লাগে। সাগরে অন্য মাছরে সঙ্গে মৌসুমে কছিু কছিু ইলশিও ধরা পড়ছে।

তবে এগুলোকে ফনেী নদীর ইলশি মাছ বলা ঠকি হবে না। নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জরে মুছাপুর ক্লোজাররে অদূরে সোনাগাজীর আর্দশ গ্রাম এলাকায় অল্পসংখ্যক জলেে রয়েছে। তারাও সখোন থকেে অনকে দূরে সাগরে গয়িে মাছ ধরে।

তিনি আরও জানান, আগে জলদস্যুর ভয়ে জেলেরা সাগরের মোহনার দিকে যেতে ভয় পেতেন। এখন জলদস্যুর ভয় কমে গেছে।অন্য জেলে সমর বলেন, আগে স্থানীয় জেলেরা সরকারি নিষেধাজ্ঞা অমান্য করে মাছ ধরত। বর্তমানে তারা সচেতন হয়েছে।

সোনাগাজী উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা তূর্য সাহা বলেন, এখানে আগে ইলিশ আরও কম পাওয়া যতে। সম্প্রতি কছিু ইলশি ধরা পড়ছে।

back to top