alt

অর্থ-বাণিজ্য

১০৭ টাকার রেমিট্যান্সের দর মানছে না কয়েকটি ব্যাংক

অর্থনৈতকি বার্তা পরিবেশক : বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২

বেঁধে দেয়া দামের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে কয়েকটি বেবসরকারি ব্যাংক। সবশেষ সিদ্ধান্ত হয়েছিল, সব ব্যাংক প্রতি ডলারে ১০৭ টাকায় প্রবাসীদের কাছ থেকে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করবে। কিন্তু কয়েকটি ব্যাংক এর চেয়েও বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। বাজারে ডলার সংকট কাটাতে বাংলাদেশ ব্যাংকের পরামর্শে ব্যাংকের শীর্ষ নির্বাহীদের সংগঠন অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকার্স বাংলাদেশ (এবিবি) ও বাংলাদেশ ফরেন এক্সচেঞ্জ ডিলারস অ্যাসোসিয়েশনের (বাফেদা) নেতারা গত ১১ সেপ্টেম্বর এক সভায় ডলারের সর্বোচ্চ দাম নির্ধারণ করে দেন। তাতে প্রবাসী আয় বা রেমিট্যান্সে ১০৮ টাকা দাম বেঁধে দেয়া হয়। পরে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পরামর্শে দুই দফায় ৫০ পয়সা করে ১ টাকা কমিয়ে এই দর ১০৭ টাকায় নামিয়ে আনে এবিবি ও বাফেদা। কিন্তু এই দর মানছে না কয়েকটি ব্যাংক।

গত ৬ ডিসেম্বরের একটি একচেঞ্জ হাউজের রেমিট্যান্স বিতরণের একটি নথি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, যুক্তরাষ্ট্র থেকে আসা একজন গ্রাহকের রেমিট্যান্সের বিপরীতে দুইটি ব্যাংক ডলার প্রতি ১০৭ টাকা ৫০ পয়সা পর্যন্ত দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করেছে। ব্যাংক দুইটি বাফেদা ও এবিবির নির্ধারিত দরের চেয়ে ৫০ পয়সা বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করেছে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকটি ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের কর্মকর্তা গণমাধ্যমে জানিযেছেন, অন্তত ৫টি ব্যাংক এবিবি ও বাফেদার নির্ধারিত দামের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে। গত কয়েক মাস ধরে এই ব্যাংকগুলো রেমিট্যান্স সংগ্রহের ক্ষেত্রে প্রতিযোগিতা করছে। গত ৪ ডিসেম্বর বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর আবদুর রউফ তালকুদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ব্যাংকার্স সভায় বেশি দরে ব্যাংকগুলোর ডলার সংগ্রহ করার বিষয়টি ওঠে আসে। সভা শেষে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের মুখপাত্র ও নির্বাহী পরিচালক মেজবাউল হক সাংবাদিকদের বলেন, ‘বাফেদা-এবিবির নির্ধারিত দরের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে কয়েকটি ব্যাংক। তবে ৯০ শতাংশ ব্যাংক বাফেদা-এবিবির নির্ধারিত দরে ডলার সংগ্রহ করছে। ব্যাংকগুলো যাতে ১০৭ টাকার বেশি দামে রেমিট্যান্স সংগ্রহ না করে সে বিষয়ে সভায় সতর্ক করে দেয়া হয়েছে।’

১ ডিসেম্বর এবিবির চেয়ারম্যান সেলিম আর এফ হোসেন এবং বাফেদার ভাইস চেয়ারম্যান ফিরোজ হোসেন সাক্ষরিত এক চিঠির মাধ্যমে ব্যাংকগুলোকে জানানো হয়, এবিবি-বাফেদা নির্ধারিত দরের চেয়ে বেশি দামে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করা যাবেনা। এরপরও কয়েকটি ব্যাংক ১০৭ টাকার বেশি দরে ডলার সংগ্রহ করছে। এ বিষয়ে অর্থনীতির গবেষক পলিসি রিসার্চ ইনস্টিটিউটের (পিআরআই) নির্বাহী পরিচালক ও ব্র্যাক ব্যাংকের চেয়ারম্যান আহসান এইচ মনসুর গণমাধ্যমে বলেন, ‘কোন কোন ব্যাংক ১০৭ টাকার চেয়েও বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে। ব্যাংকগুলো রেমিট্যান্স সংগ্রহ করার ক্ষেত্রে এক ধরনের প্রতিযোগিতা করছে। সে সব ব্যাংক বেঁধে দেয়া দরের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করেছে তাদের জরিমানা করে সতর্ক করে দিতে হবে। তা না হলে এই অসুস্থ প্রতিযোগিতা বন্ধ হবে না।’

ছবি

জাতীয় স্বার্থে ব্যাংক একীভূত করতে মালিকরা বাধ্য: বিএবি চেয়ারম্যান

ছবি

বিদ্যুৎ ও জ্বালানিতে প্রয়োজন ৩০ বিলিয়ন ডলার, চীনকে পাশে চান প্রতিমন্ত্রী

ছবি

আবার বেড়েছে জ্বালানি তেলের দাম

ছবি

বাড়ল এলপিজির দাম

ছবি

আরসিবিসির বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের আদালতে মামলা চলবে

ছবি

ভারত থেকে এ সপ্তাহে ৫০ হাজার টন পেঁয়াজ আসবে: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী

ছবি

শুল্ক কমানোর পরও বাড়লো চিনির দাম

ছবি

ডলার-টাকা অদলবদলে বেড়েছে রিজার্ভ

ছবি

ওয়ালটন ডিজিটাল ক্যাম্পেইনে ‘ননস্টপ মিলিয়নিয়ার’ হওয়ার সুযোগ

ছবি

রিহ্যাবের প্রেসিডেন্ট মো. ওয়াহিদুজ্জামান, সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট লিয়াকত আলী ভূইয়া

ছবি

রিজার্ভ বৃদ্ধি ও আর্থিক কাঠামো সমৃদ্ধ করার লক্ষ্যে ‘অফশোর ব্যাংকিং’

ছবি

‘বছরে ২৪০ কোটি ডলারের কৃষিপণ্য নষ্ট’

ছবি

ছয় মাসে মোবাইল ব্যাংকিংয়ে লেনদেন ৬ লাখ ৮২ হাজার কোটি টাকা

ছবি

হল-মার্কের তানভীরের বিরুদ্ধে মামলায় রায় হয়নি

ছবি

নতুন ডেপুটি গভর্নর হয়েছেন খুরশীদ আলম ও ড. হাবিবুর রহমান

ছবি

শেয়ারপ্রতি এক টাকা লভ্যাংশ দেবে ইউনাইটেড ইন্স্যুরেন্স

ছবি

রিহ্যাব নির্বাচনে ব্যবসায়ী ঐক্য পরিষদের নিরঙ্কুশ জয়

ছবি

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়কে ১৫ শতাংশ কর দিতেই হবে: আপিল বিভাগ

ছবি

চার বছরে খেলাপি ঋণ সিঙ্গেল ডিজিটে নিয়ে আসবো: জনতা ব্যাংকের এমডি

ছবি

‘উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমানোর পথ খোঁজার তাগিদ’

ছবি

২৪ দিনে দেশে রেমিট্যান্স এলো ১৮ হাজার কোটি টাকা

ছবি

মেঘনা পিইটি ইন্ডাস্ট্রিজের পরিচালক হলেন ড. মাশরিক

ছবি

আমদানি নির্ভরতা, সিন্ডিকেটের কারণে জিনিসপত্রের দাম বাড়লেও করের বোঝাটাই সবার কাছে মাথা ব্যথার কারণ

ছবি

রমজানে দ্রব্যমূল্য বাড়ালে কঠোর ব্যবস্থা: সালমান এফ রহমান

ছবি

চড়া দামে আটকা বেশিরভাগ নিত্যপণ্য

ছবি

ভারত: চাল রপ্তানিতে শুল্ক আরোপের মেয়াদ বাড়াল ৩১ মার্চ

ছবি

উৎপাদন খরচ বাড়লেও বাড়েনি বইয়ের দাম

ছবি

সয়াবিন তেলের দাম লিটারে কমবে ১০ টাকা

ছবি

অর্থপাচারের ৮০ শতাংশই ব্যাংকিং চ্যানেলে : বিএফআইইউ

ছবি

সূচক বেড়ে পুঁজিবাজারে লেনদেন চলছে

ছবি

জিআই পণ্যের তালিকা করতে হাইকোর্টের নির্দেশ

ছবি

দেশ-বিদেশে পর্যটক আনতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে : পর্যটনমন্ত্রী

ছবি

কৃষি ব্যাংকের খেলাপি ঋণ কমানো, লাভে নেয়াই লক্ষ্য : শওকত আলী খান

ছবি

অস্তিত্বের জন্য বৈশ্বিক তাপমাত্রা বৃদ্ধি সীমাবদ্ধ রাখতে হবে: সাবের হোসেন চৌধুরী

ছবি

ড. ইউনূসের ‘জবরদখলে’র অভিযোগ নিয়ে যা বলল গ্রামীণ ব্যাংক

ছবি

খেজুরের গুড়, মিষ্টি পান ও নকশিকাঁথা পেল জিআই স্বীকৃতি

tab

অর্থ-বাণিজ্য

১০৭ টাকার রেমিট্যান্সের দর মানছে না কয়েকটি ব্যাংক

অর্থনৈতকি বার্তা পরিবেশক

বৃহস্পতিবার, ০৮ ডিসেম্বর ২০২২

বেঁধে দেয়া দামের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে কয়েকটি বেবসরকারি ব্যাংক। সবশেষ সিদ্ধান্ত হয়েছিল, সব ব্যাংক প্রতি ডলারে ১০৭ টাকায় প্রবাসীদের কাছ থেকে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করবে। কিন্তু কয়েকটি ব্যাংক এর চেয়েও বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। বাজারে ডলার সংকট কাটাতে বাংলাদেশ ব্যাংকের পরামর্শে ব্যাংকের শীর্ষ নির্বাহীদের সংগঠন অ্যাসোসিয়েশন অব ব্যাংকার্স বাংলাদেশ (এবিবি) ও বাংলাদেশ ফরেন এক্সচেঞ্জ ডিলারস অ্যাসোসিয়েশনের (বাফেদা) নেতারা গত ১১ সেপ্টেম্বর এক সভায় ডলারের সর্বোচ্চ দাম নির্ধারণ করে দেন। তাতে প্রবাসী আয় বা রেমিট্যান্সে ১০৮ টাকা দাম বেঁধে দেয়া হয়। পরে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের পরামর্শে দুই দফায় ৫০ পয়সা করে ১ টাকা কমিয়ে এই দর ১০৭ টাকায় নামিয়ে আনে এবিবি ও বাফেদা। কিন্তু এই দর মানছে না কয়েকটি ব্যাংক।

গত ৬ ডিসেম্বরের একটি একচেঞ্জ হাউজের রেমিট্যান্স বিতরণের একটি নথি পর্যালোচনা করে দেখা যায়, যুক্তরাষ্ট্র থেকে আসা একজন গ্রাহকের রেমিট্যান্সের বিপরীতে দুইটি ব্যাংক ডলার প্রতি ১০৭ টাকা ৫০ পয়সা পর্যন্ত দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করেছে। ব্যাংক দুইটি বাফেদা ও এবিবির নির্ধারিত দরের চেয়ে ৫০ পয়সা বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করেছে। নাম প্রকাশ না করার শর্তে কয়েকটি ব্যাংকের ট্রেজারি বিভাগের কর্মকর্তা গণমাধ্যমে জানিযেছেন, অন্তত ৫টি ব্যাংক এবিবি ও বাফেদার নির্ধারিত দামের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে। গত কয়েক মাস ধরে এই ব্যাংকগুলো রেমিট্যান্স সংগ্রহের ক্ষেত্রে প্রতিযোগিতা করছে। গত ৪ ডিসেম্বর বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর আবদুর রউফ তালকুদারের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত ব্যাংকার্স সভায় বেশি দরে ব্যাংকগুলোর ডলার সংগ্রহ করার বিষয়টি ওঠে আসে। সভা শেষে কেন্দ্রীয় ব্যাংকের মুখপাত্র ও নির্বাহী পরিচালক মেজবাউল হক সাংবাদিকদের বলেন, ‘বাফেদা-এবিবির নির্ধারিত দরের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে কয়েকটি ব্যাংক। তবে ৯০ শতাংশ ব্যাংক বাফেদা-এবিবির নির্ধারিত দরে ডলার সংগ্রহ করছে। ব্যাংকগুলো যাতে ১০৭ টাকার বেশি দামে রেমিট্যান্স সংগ্রহ না করে সে বিষয়ে সভায় সতর্ক করে দেয়া হয়েছে।’

১ ডিসেম্বর এবিবির চেয়ারম্যান সেলিম আর এফ হোসেন এবং বাফেদার ভাইস চেয়ারম্যান ফিরোজ হোসেন সাক্ষরিত এক চিঠির মাধ্যমে ব্যাংকগুলোকে জানানো হয়, এবিবি-বাফেদা নির্ধারিত দরের চেয়ে বেশি দামে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করা যাবেনা। এরপরও কয়েকটি ব্যাংক ১০৭ টাকার বেশি দরে ডলার সংগ্রহ করছে। এ বিষয়ে অর্থনীতির গবেষক পলিসি রিসার্চ ইনস্টিটিউটের (পিআরআই) নির্বাহী পরিচালক ও ব্র্যাক ব্যাংকের চেয়ারম্যান আহসান এইচ মনসুর গণমাধ্যমে বলেন, ‘কোন কোন ব্যাংক ১০৭ টাকার চেয়েও বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করছে। ব্যাংকগুলো রেমিট্যান্স সংগ্রহ করার ক্ষেত্রে এক ধরনের প্রতিযোগিতা করছে। সে সব ব্যাংক বেঁধে দেয়া দরের চেয়ে বেশি দরে রেমিট্যান্স সংগ্রহ করেছে তাদের জরিমানা করে সতর্ক করে দিতে হবে। তা না হলে এই অসুস্থ প্রতিযোগিতা বন্ধ হবে না।’

back to top