alt

অর্থ-বাণিজ্য

ডলারের বাড়তি দামে অ্যাপেক্সের জুতা বিক্রির আয় ৬৭ কোটি টাকা

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক : বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

ডলারের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধির বড় সুবিধা পেয়েছে দেশের শীর্ষস্থানীয় জুতা প্রস্তুত ও বাজারজাতকারী প্রতিষ্ঠান অ্যাপেক্স ফুটওয়্যার। প্রতিষ্ঠানটি ডলারের বেশি দামের কারণে প্রায় ৬৭ কোটি টাকা বেশি আয় করেছে। এই আয় হয়েছে মূলত কোম্পানিটির রপ্তানি বেড়ে যাওয়ায়। ডলারের বাড়তি দামের কারণে বাড়তি আয়ের পাশাপাশি অর্থনীতির খারাপ অবস্থার মধ্যেও গত পাঁচ বছরের মধ্যে জুতা বিক্রি করে অ্যাপেক্স সর্বোচ্চ আয় করেছে গত জুলাই-ডিসেম্বরে।

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত অ্যাপেক্স ফুটওয়্যার চলতি ২০২২-২৩ অর্থবছরের প্রথমার্ধের (গত জুলাই-ডিসেম্বর) আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে, তা থেকে এ তথ্য পাওয়া গেছে। পাশাপাশি কোম্পানিটির গত কয়েক বছরের অর্ধবার্ষিক আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে দেখা যায়, ২০১৭ সালের পর গত বছরের শেষ ৬ মাসে (জুলাই-ডিসেম্বর) কোম্পানিটির আয় আবারও ৮০০ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। ২০১৭ সালের জুলাই-ডিসেম্বরে কোম্পানিটি আয় করেছিল ৮১০ কোটি টাকা। আর ২০২২ সালের একই সময়ে এ আয় দাঁড়িয়েছে ৮০১ কোটি টাকায়, যা ২০২১ সালের তুলনায় ২৩৫ কোটি টাকা বেশি। ২০২১ সালের শেষ ৬ মাসে কোম্পানিটি ৫৬৬ কোটি টাকার পণ্য বিক্রি করেছিল। গত বছরের চেয়ে পণ্য বিক্রির আয় বেড়ে যাওয়ায় কোম্পানিটির মুনাফাও বেড়েছে। ২০২২ সালে জুলাই-ডিসেম্বর শেষে কোম্পানিটি শেয়ারপ্রতি মুনাফা করেছে ৫ টাকা ২২ পয়সা। ২০২১ সালের একই সময়ে এ মুনাফা ছিল ৩ টাকা ৬৮ পয়সা।

দেশের শীর্ষস্থানীয় জুতা কোম্পানিটির আয় ও মুনাফা বেড়ে যাওয়ার পেছনে বড় ভূমিকা রেখেছে রপ্তানি। চলতি অর্থবছরের প্রথমার্ধে কোম্পানিটির রপ্তানি আয় স্থানীয় বাজারে জুতা বিক্রির আয়কে ছাড়িয়ে গেছে। উল্লেখিত ৬ মাসে কোম্পানিটির ৮০১ কোটি টাকার আয়ের মধ্যে রপ্তানি বাজার থেকে এসেছে ৪১৪ কোটি ৪২ লাখ টাকা। আর স্থানীয় বাজারে জুতা বিক্রি করে কোম্পানিটি আয় করেছে ৩৮৬ কোটি ৬৪ লাখ টাকা। কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, ২০২১ সালের একই সময়ে কোম্পানিটি রপ্তানি থেকে প্রায় ২৩৭ কোটি টাকা ও স্থানীয় বাজার থেকে ৩৩০ কোটি টাকা আয় করেছিল। অর্থবছরের প্রথম ৬ মাসে অ্যাপেক্স যে রপ্তানি করেছি, তার ২০ শতাংশের বেশি করেছে জাপানি একটি কোম্পানির কাছে। জাপানি কোম্পানিটির কাছে নতুন করে রপ্তানি শুরু হওয়ায় রপ্তানি আয় বেড়েছে। এতে কোম্পানির বিক্রির পরিমাণও বেড়েছে। এছাড়া ডলারের মূল্যবৃদ্ধিতেও বাড়তি কিছু আয় যোগ হয়েছে।

ছবি

কাঁচা মরিচের কেজি ৪০০ টাকা, বেড়েছে আলু-শসার দাম

বড় ব্যবসায়ীদের কারসাজির কারণে চামড়ার দাম কম

ছবি

ধারাবাহিক পতনে সাড়ে ১২ হাজার কোটি টাকা মূলধন কমল ডিএসইতে

ছবি

ইউরো চ্যাম্পিয়নশিপের অফিসিয়াল পার্টনার ভিভো

ছবি

উত্তরাঞ্চলে এগ্রিটেক স্টার্টআপ ‘ফসল’ ও ‘সেফ’ এর ফারমার্স সেন্টার চালু

ছবি

বাংলাদেশে হুয়াওয়ের ওয়াই-ফাই ৭ ব্যবহার উপযোগী অ্যাকসেস পয়েন্ট পণ্য উন্মোচন

ছবি

এক সপ্তাহে রিজার্ভ বেড়েছে ৫৪ কোটি ডলার

বাজেটের অর্থায়ন নিয়ে সংশয় অর্থনীতিবিদদের

বুড়িমারী স্থলবন্দরে ৮ দিন আমদানি-রফতানি বন্ধ

ছবি

ইনফিনিক্স স্মার্টফোন কিনে বাইক জিতলেন গাজীপুরের রাসেল

ছবি

ইউসিবি এখন এসএমই খাতে বেশি জোর দিচ্ছে : এমডি আরিফ কাদরী

ছবি

চট্টগ্রাম ও সিলেটের সেরা পাঠাও হিরোরা পুরস্কৃত

ব্যাংকারদের বিদেশ ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা ‘শিথিল’

ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের এডিপি বাস্তবায়ন হার প্রায় শতভাগ

ছবি

নারীদের অর্থনৈতিক কর্মকান্ডে সম্পৃক্ত করা না গেলে কাঙ্ক্ষিত লক্ষ্যে পৌঁছানো যাবে না: প্রতিমন্ত্রী পলক

ছবি

নাটোরের সিংড়ার পশুরহাটে ক্যাশলেস লেনদেনে নগদ

হজযাত্রীদের বিনামূল্যে ২৪ ঘণ্টা জরুরি ডাক্তারের পরামর্শ সেবা প্রদান করবে মেটলাইফ

ছবি

বাজেটে রপ্তানি খাতে প্রস্তাবনার প্রতিফলন ঘটেনি : ইএবি

ছবি

শেয়ারবাজারে ধারাবাহিক পতন, ৪২ মাসের মধ্যে সর্বনিম্ন সূচক

ছবি

বিক্রয় বিরাট হাট ২০২৪ ক্যাম্পেইন শুরু

ছবি

টেকসই উন্নয়নের জন্য টেকসই আর্থিক নীতির তাগিদ দিয়েছে ফিকি

ছবি

দেশ ‘অনৈতিক’ অর্থনৈতিক ব্যবস্থার দিকে ‘যাচ্ছে’

ছবি

প্রস্তাবিত বাজেট বে-নজির বাজেট : দেবপ্রিয় ভট্টাচার্য

ছবি

খাদ্য উৎপাদন বাড়াতে ভূমিকা রাখছে ‘কুমিল্লা-চাঁদপুর-ব্রাহ্মণবাড়িয়া সেচ উন্নয়ন প্রকল্প’

ছবি

বাজেটের পর প্রথমদিনেই শেয়ারবাজারে বড় পতন

ছবি

‘লোকসানে বন্ধ হয়ে যাচ্ছে’ সিএনজি ফিলিং স্টেশন

ছবি

‘কালো টাকা সাদা’ : ১৫% কর বেশি লাগছে এমপি সোহরাবের

ছবি

বাজেটের পর শেয়ারবাজারে বড় পতন

ছবি

ফ্ল্যাটের রেজিস্ট্রেশন ফি কমানোর আহ্বান রিহ্যাবের

ছবি

ঋণখেলাপিদের ৪ বার পুনঃতফসিলের সুযোগ দেয়া ঠিক নয় : বিআইডিএস

ছবি

রাজধানীতে নতুন ফ্যাশন ডিজাইনারদের পণ্য প্রদর্শনী

ছবি

প্রস্তাবিত বাজেট নিয়ে বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতির প্রতিক্রিয়া

ছবি

বছরের শেষের দিকে মূল্যস্ফীতি কমে আসবে, বললেন অর্থমন্ত্রী

ছবি

টোকিওতে বাংলাদেশের ‘বাণিজ্য, বিনিয়োগ এবং মানবসম্পদ’ বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত

তিন মাসে খেলাপি ঋণ বেড়েছে ৩৬ হাজার ৩৬৭ কোটি টাকা

বাজেট ইতিবাচক, চাপ বাড়বে ব্যবসায়ীদের ওপর : রংপুর চেম্বার

tab

অর্থ-বাণিজ্য

ডলারের বাড়তি দামে অ্যাপেক্সের জুতা বিক্রির আয় ৬৭ কোটি টাকা

অর্থনৈতিক বার্তা পরিবেশক

বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

ডলারের অস্বাভাবিক মূল্যবৃদ্ধির বড় সুবিধা পেয়েছে দেশের শীর্ষস্থানীয় জুতা প্রস্তুত ও বাজারজাতকারী প্রতিষ্ঠান অ্যাপেক্স ফুটওয়্যার। প্রতিষ্ঠানটি ডলারের বেশি দামের কারণে প্রায় ৬৭ কোটি টাকা বেশি আয় করেছে। এই আয় হয়েছে মূলত কোম্পানিটির রপ্তানি বেড়ে যাওয়ায়। ডলারের বাড়তি দামের কারণে বাড়তি আয়ের পাশাপাশি অর্থনীতির খারাপ অবস্থার মধ্যেও গত পাঁচ বছরের মধ্যে জুতা বিক্রি করে অ্যাপেক্স সর্বোচ্চ আয় করেছে গত জুলাই-ডিসেম্বরে।

শেয়ারবাজারে তালিকাভুক্ত অ্যাপেক্স ফুটওয়্যার চলতি ২০২২-২৩ অর্থবছরের প্রথমার্ধের (গত জুলাই-ডিসেম্বর) আর্থিক প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে, তা থেকে এ তথ্য পাওয়া গেছে। পাশাপাশি কোম্পানিটির গত কয়েক বছরের অর্ধবার্ষিক আর্থিক প্রতিবেদন পর্যালোচনা করে দেখা যায়, ২০১৭ সালের পর গত বছরের শেষ ৬ মাসে (জুলাই-ডিসেম্বর) কোম্পানিটির আয় আবারও ৮০০ কোটি টাকা ছাড়িয়েছে। ২০১৭ সালের জুলাই-ডিসেম্বরে কোম্পানিটি আয় করেছিল ৮১০ কোটি টাকা। আর ২০২২ সালের একই সময়ে এ আয় দাঁড়িয়েছে ৮০১ কোটি টাকায়, যা ২০২১ সালের তুলনায় ২৩৫ কোটি টাকা বেশি। ২০২১ সালের শেষ ৬ মাসে কোম্পানিটি ৫৬৬ কোটি টাকার পণ্য বিক্রি করেছিল। গত বছরের চেয়ে পণ্য বিক্রির আয় বেড়ে যাওয়ায় কোম্পানিটির মুনাফাও বেড়েছে। ২০২২ সালে জুলাই-ডিসেম্বর শেষে কোম্পানিটি শেয়ারপ্রতি মুনাফা করেছে ৫ টাকা ২২ পয়সা। ২০২১ সালের একই সময়ে এ মুনাফা ছিল ৩ টাকা ৬৮ পয়সা।

দেশের শীর্ষস্থানীয় জুতা কোম্পানিটির আয় ও মুনাফা বেড়ে যাওয়ার পেছনে বড় ভূমিকা রেখেছে রপ্তানি। চলতি অর্থবছরের প্রথমার্ধে কোম্পানিটির রপ্তানি আয় স্থানীয় বাজারে জুতা বিক্রির আয়কে ছাড়িয়ে গেছে। উল্লেখিত ৬ মাসে কোম্পানিটির ৮০১ কোটি টাকার আয়ের মধ্যে রপ্তানি বাজার থেকে এসেছে ৪১৪ কোটি ৪২ লাখ টাকা। আর স্থানীয় বাজারে জুতা বিক্রি করে কোম্পানিটি আয় করেছে ৩৮৬ কোটি ৬৪ লাখ টাকা। কোম্পানি সূত্রে জানা গেছে, ২০২১ সালের একই সময়ে কোম্পানিটি রপ্তানি থেকে প্রায় ২৩৭ কোটি টাকা ও স্থানীয় বাজার থেকে ৩৩০ কোটি টাকা আয় করেছিল। অর্থবছরের প্রথম ৬ মাসে অ্যাপেক্স যে রপ্তানি করেছি, তার ২০ শতাংশের বেশি করেছে জাপানি একটি কোম্পানির কাছে। জাপানি কোম্পানিটির কাছে নতুন করে রপ্তানি শুরু হওয়ায় রপ্তানি আয় বেড়েছে। এতে কোম্পানির বিক্রির পরিমাণও বেড়েছে। এছাড়া ডলারের মূল্যবৃদ্ধিতেও বাড়তি কিছু আয় যোগ হয়েছে।

back to top