alt

আন্তর্জাতিক

পশ্চিমা সহায়তা নিয়ে উদ্বিগ্ন জেলেনস্কি, উদ্যোগী বাইডেন

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : বৃহস্পতিবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২৩

অভ্যন্তরীণ সংকটের কারণে যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন অন্য কোনো দেশের জন্য সহজে আর্থিক সহায়তা দিতে পারছে না। মার্কিন কংগ্রেসে বিরোধী রিপাবলিকান দল প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের যাবতীয় উদ্যোগ বানচাল করার চেষ্টা করছে।

ইউক্রেন ও ইসরায়েলের জন্য বিপুল আর্থিক সহায়তার প্যাকেজও তাই থমকে গেছে। ইউরোপের প্রধান অর্থনৈতিক শক্তি জার্মানির বাজেট সংকটের ফলেও ব্যয় সংকোচের নানা উদ্যোগ চলছে।

ফলে ইউক্রেনের জন্য ইউরোপের সহায়তার ভবিষ্যতও অনিশ্চয়তার মুখে পড়েছে। এই দুই প্রধান শক্তির সক্রিয় সহযোগিতা ছাড়া ইউক্রেনের পক্ষে রাশিয়ার লাগাতার হামলার মুখে প্রতিরোধ বজায় রাখা আদৌ সম্ভব কি না, সে বিষয়ে সংশয় বাড়ছে। শেষ পর্যন্ত দুই শক্তি সহায়তা মঞ্জুর করলেও বিলম্বের কারণে ইউক্রেন বিপদে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এমনই এক প্রেক্ষাপটে জি৭ শিল্পোন্নত গোষ্ঠীর শীর্ষ বৈঠকে পশ্চিমা বিশ্বের ঐক্যের গুরুত্ব তুলে ধরলেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভোলোদিমির জেলেনস্কি। তিনি বলেন, রাশিয়া যুদ্ধক্ষেত্রে চাপ বাড়িয়ে চলেছে এবং আগামী বছর পশ্চিমা বিশ্বের ঐক্য ভাঙার আশায় অপেক্ষা করছে।

জেলেনস্কির মতে, পশ্চিমা বিশ্বকে প্রেরণার লড়াইয়ে জিততেই হবে। তিনি মনে করিয়ে দেন, চলমান সংঘাত শুধু ইউক্রেন নয়, ইউরোপের পরিণতিও নির্ধারণ করবে।

জি৭ শীর্ষ নেতারা অবশ্য এক বিবৃতিতে ইউক্রেনের প্রতি সমর্থন চালিয়ে যাবার অঙ্গীকার করেন।

রাশিয়ার ওপর চাপ বাড়াতে সে দেশ থেকে হীরা ও পেট্রোলিয়াম রপ্তানি সীমিত করার উদ্যোগ নিতে চান তারা।

জেলেনস্কি ইউরোপীয় নেতাদের উদ্দেশ্যে ইউক্রেনকে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য করার লক্ষ্যে আনুষ্ঠানিক আলোচনা শুরু করার প্রতিশ্রুতি পালন করার আবেদন জানান। আগামী সপ্তাহে ইইউ শীর্ষ সম্মেলনে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হওয়ার কথা।

ইইউ কমিশন নভেম্বর মাসে সেই উদ্যোগের পক্ষে সমর্থন জানালেও ২৭টি সদস্য দেশকে সম্মিলিতভাবে সিদ্ধান্ত নিতে হবে। মূলত হাঙ্গেরির আপত্তির কারণে ইউক্রেন সেই সুযোগ থেকে বঞ্চিত হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বিরোধী রিপাবলিকান দলের উদ্দেশ্যে ইউক্রেনের প্রতি সহায়তার পথে বাধা দূর করার আর্জি জানিয়েছেন। তিনি তাদের সতর্ক করে দিয়ে বলেন, ইউক্রেনের বিরুদ্ধে সংগ্রামে রাশিয়ার জয় হলে মস্কো ন্যাটোর সদস্যদের ওপরেও হামলা চালানোর সাহস পাবে। সে ক্ষেত্রে মার্কিন সেনারাও যুদ্ধে জড়িয়ে পড়বে। বাইডেন বলেন, পুতিন এখানেই থামবে না। তখন যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়ার সেনাদের মধ্যে সরাসরি সংঘাত ঘটবে। ফলে পুতিনকে জিততে দেওয়া যায় না বলে মত দেন বাইডেন।

মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্ঠা জেক সুলিভান সংবাদ সংস্থা রয়টার্সকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে বাইডেন প্রশাসনের অবস্থান তুলে ধরেন। তার মতে, রাশিয়ার সঙ্গে আলোচনায় বসার জন্য ইউক্রেনের ওপর চাপ সৃষ্টি না করার নীতিতে বাইডেন অটল রয়েছেন। ইউক্রেন সে বিষয়ে নিজস্ব সিদ্ধান্ত নেবে। সে দেশকে সামরিক ও আর্থিক সহায়তা দিয়ে যেতে মার্কিন প্রশাসন বদ্ধপরিকর। তার মতে, ইউক্রেনের পাশ থেকে সরে যাওয়া যুক্তরাষ্ট্রের জন্য ঐতিহাসিক ভুল হবে।

ছবি

হাইতিতে জেল ভেঙে ৪০০০ বন্দিকে মুক্ত করেছে অপরাধী দলগুলো

ছবি

পাকিস্তানে বৃষ্টি ও তুষারপাতজনিত ঘটনায় ১৮ শিশুসহ ২৭ জনের মৃত্যু

ছবি

মালয়েশিয়ায় ট্রেনের ধাক্কায় ৩ বাংলাদেশি নিহত

ছবি

গাজা উপত্যকায় ইসরায়েলি বিমান হামলা, ২০ ফিলিস্তিনি নিহত

ছবি

দেশের মানুষ ভালো আছে : অর্থমন্ত্রী

ছবি

বাংলাদেশিকে ধরিয়ে দিতে ২০ হাজার ডলার পুরস্কার ঘোষণা এফবিআইয়ের

ছবি

পাকিস্তানের ২৪তম প্রধানমন্ত্রী হলেন শাহবাজ শরিফ

ছবি

ইউক্রেনের ওডেসায় রাশিয়ার ড্রোন হামলা, নিহত ৮

ছবি

মিশিগানসহ তিন অঙ্গরাজ্যের ককাশে জিতে দলের মনোনয়ন পাকাপোক্ত করলেন ট্রাম্প

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রে প্রবল তুষারঝড়, বিদ্যুৎহীন অর্ধলক্ষাধিক মানুষ

ছবি

প্রথমবারের মত গাজাবাসীর জন্য উড়োজাহাজ থেকে খাবার ফেলল যুক্তরাষ্ট্র

ছবি

রাফাহতে আশ্রয় শিবিরে ইসরায়েলের হামলা, নিহত ১১ ফিলিস্তিনি

ছবি

রাখাইনের রাজধানী থেকে পালাচ্ছেন হাজার হাজার মানুষ

ছবি

গাজায় ইসরায়েলি বাহিনীর বোমায় নিহত ৭ জিম্মি: হামাস

ছবি

পাকিস্তানের নতুন সরকারকে স্বীকৃতি না দিতে বাইডেনকে চিঠি

ছবি

সেনেগাল উপকূলে অভিবাসীবাহী নৌকাডুবি, মৃত ২০

ছবি

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমে বেইলি রোডের অগ্নিকাণ্ড

ছবি

রোজার আগে আরব আমিরাতে খেজুরের দাম কমলো ৪০ শতাংশ

ছবি

ইসরায়েলি তাণ্ডব: গাজায় নিহত প্রায় ৩০ হাজার

ছবি

মধ্যপ্রদেশে পিকআপ উল্টে নিহত ১৪, আহত ২১

ছবি

দক্ষিণ কোরিয়ায় নিম্ন জন্ম হারের নতুন রেকর্ড

ছবি

সন্ত্রাসবাদের অভিযোগে সৌদি আরবে এক দিনে সাতজনের শিরশ্ছেদ

ছবি

হামাস যুদ্ধবিরতিতে সায় দিলে হামলা থামাবে হিজবুল্লাহও

ছবি

আমি ইহুদিবাদী, ইসরায়েল না থাকলে কোনও ইহুদি নিরাপদ নয়: বাইডেন

ছবি

মালিতে সেতু থেকে নদীতে পড়ল বাস, নিহত ৩১

ছবি

“কে ডাকবে বাবা?”

আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে ইসরায়েলের দখলদারিত্বের অবসানে রায় প্রদানের আহ্বান

ছবি

সোমবারের মধ্যে গাজায় যুদ্ধবিরতি শুরুর আশা বাইডেনের

ছবি

তাপমাত্রা ক্রমেই বাড়তে পারে

ছবি

গাজায় আগামী সপ্তাহে যুদ্ধবিরতির আশা বাইডেনের

ছবি

বুরকিনা ফাসোতে ফজরের নামাজের সময় মসজিদে হামলা, বহু মুসল্লি নিহত

ছবি

বাংলাদেশকে যেসব বার্তা দিল যুক্তরাষ্ট্র

ছবি

পাকিস্তানের পাঞ্জাবের মুখ্যমন্ত্রী হলেন মরিয়ম নওয়াজ

ছবি

চালক ছাড়াই ৭০ কি.মি. পাড়ি দিলো ভারতীয় ট্রেন

ছবি

ফিলিস্তিনের প্রধানমন্ত্রীর পদত্যাগ

ছবি

জ্ঞানবাপী মসজিদের বেজমেন্টে পূজা চলবে, রায় হাইকোর্টের

tab

আন্তর্জাতিক

পশ্চিমা সহায়তা নিয়ে উদ্বিগ্ন জেলেনস্কি, উদ্যোগী বাইডেন

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট

বৃহস্পতিবার, ০৭ ডিসেম্বর ২০২৩

অভ্যন্তরীণ সংকটের কারণে যুক্তরাষ্ট্র ও ইউরোপীয় ইউনিয়ন অন্য কোনো দেশের জন্য সহজে আর্থিক সহায়তা দিতে পারছে না। মার্কিন কংগ্রেসে বিরোধী রিপাবলিকান দল প্রেসিডেন্ট জো বাইডেনের যাবতীয় উদ্যোগ বানচাল করার চেষ্টা করছে।

ইউক্রেন ও ইসরায়েলের জন্য বিপুল আর্থিক সহায়তার প্যাকেজও তাই থমকে গেছে। ইউরোপের প্রধান অর্থনৈতিক শক্তি জার্মানির বাজেট সংকটের ফলেও ব্যয় সংকোচের নানা উদ্যোগ চলছে।

ফলে ইউক্রেনের জন্য ইউরোপের সহায়তার ভবিষ্যতও অনিশ্চয়তার মুখে পড়েছে। এই দুই প্রধান শক্তির সক্রিয় সহযোগিতা ছাড়া ইউক্রেনের পক্ষে রাশিয়ার লাগাতার হামলার মুখে প্রতিরোধ বজায় রাখা আদৌ সম্ভব কি না, সে বিষয়ে সংশয় বাড়ছে। শেষ পর্যন্ত দুই শক্তি সহায়তা মঞ্জুর করলেও বিলম্বের কারণে ইউক্রেন বিপদে পড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এমনই এক প্রেক্ষাপটে জি৭ শিল্পোন্নত গোষ্ঠীর শীর্ষ বৈঠকে পশ্চিমা বিশ্বের ঐক্যের গুরুত্ব তুলে ধরলেন ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভোলোদিমির জেলেনস্কি। তিনি বলেন, রাশিয়া যুদ্ধক্ষেত্রে চাপ বাড়িয়ে চলেছে এবং আগামী বছর পশ্চিমা বিশ্বের ঐক্য ভাঙার আশায় অপেক্ষা করছে।

জেলেনস্কির মতে, পশ্চিমা বিশ্বকে প্রেরণার লড়াইয়ে জিততেই হবে। তিনি মনে করিয়ে দেন, চলমান সংঘাত শুধু ইউক্রেন নয়, ইউরোপের পরিণতিও নির্ধারণ করবে।

জি৭ শীর্ষ নেতারা অবশ্য এক বিবৃতিতে ইউক্রেনের প্রতি সমর্থন চালিয়ে যাবার অঙ্গীকার করেন।

রাশিয়ার ওপর চাপ বাড়াতে সে দেশ থেকে হীরা ও পেট্রোলিয়াম রপ্তানি সীমিত করার উদ্যোগ নিতে চান তারা।

জেলেনস্কি ইউরোপীয় নেতাদের উদ্দেশ্যে ইউক্রেনকে ইউরোপীয় ইউনিয়নের সদস্য করার লক্ষ্যে আনুষ্ঠানিক আলোচনা শুরু করার প্রতিশ্রুতি পালন করার আবেদন জানান। আগামী সপ্তাহে ইইউ শীর্ষ সম্মেলনে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা হওয়ার কথা।

ইইউ কমিশন নভেম্বর মাসে সেই উদ্যোগের পক্ষে সমর্থন জানালেও ২৭টি সদস্য দেশকে সম্মিলিতভাবে সিদ্ধান্ত নিতে হবে। মূলত হাঙ্গেরির আপত্তির কারণে ইউক্রেন সেই সুযোগ থেকে বঞ্চিত হতে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

এদিকে মার্কিন প্রেসিডেন্ট জো বাইডেন বিরোধী রিপাবলিকান দলের উদ্দেশ্যে ইউক্রেনের প্রতি সহায়তার পথে বাধা দূর করার আর্জি জানিয়েছেন। তিনি তাদের সতর্ক করে দিয়ে বলেন, ইউক্রেনের বিরুদ্ধে সংগ্রামে রাশিয়ার জয় হলে মস্কো ন্যাটোর সদস্যদের ওপরেও হামলা চালানোর সাহস পাবে। সে ক্ষেত্রে মার্কিন সেনারাও যুদ্ধে জড়িয়ে পড়বে। বাইডেন বলেন, পুতিন এখানেই থামবে না। তখন যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়ার সেনাদের মধ্যে সরাসরি সংঘাত ঘটবে। ফলে পুতিনকে জিততে দেওয়া যায় না বলে মত দেন বাইডেন।

মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্ঠা জেক সুলিভান সংবাদ সংস্থা রয়টার্সকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে বাইডেন প্রশাসনের অবস্থান তুলে ধরেন। তার মতে, রাশিয়ার সঙ্গে আলোচনায় বসার জন্য ইউক্রেনের ওপর চাপ সৃষ্টি না করার নীতিতে বাইডেন অটল রয়েছেন। ইউক্রেন সে বিষয়ে নিজস্ব সিদ্ধান্ত নেবে। সে দেশকে সামরিক ও আর্থিক সহায়তা দিয়ে যেতে মার্কিন প্রশাসন বদ্ধপরিকর। তার মতে, ইউক্রেনের পাশ থেকে সরে যাওয়া যুক্তরাষ্ট্রের জন্য ঐতিহাসিক ভুল হবে।

back to top