alt

আন্তর্জাতিক

মায়ানমারের সীমান্ত শহরের বাসিন্দারা থাইল্যান্ডে পালাচ্ছে

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : শুক্রবার, ১২ এপ্রিল ২০২৪

মায়ানমারে জান্তা-বিরোধী বিদ্রোহী বাহিনীর কাছে সীমান্ত শহর মায়াওয়াদ্দির পতনের পর থাইল্যান্ডে পালাতে থাকা মানুষের ঢল থামছেই না। শুক্রবার সকালে থাই সীমান্ত ক্রসিংয়ে দেখা গেছে সারি সারি মানুষ। অনেকেই বিমান হামলার ভয়ে থাইল্যান্ডে পালাচ্ছেন।

বিদ্রোহী বাহিনীর সঙ্গে কয়েকদিন ধরে চলা লড়াইয়ে থাইল্যান্ড সীমান্তবর্তী মায়াওয়াদ্দি শহরের একটি সেতুর নিয়ন্ত্রণ হারায় মায়ানমারের সামরিক বাহিনী।

বৃহস্পতিবার কেয়ন রাজ্যের মায়াওয়াদ্দি শহরের ওই সেতুটি থেকে মায়ানমারের জান্তা বাহিনীর প্রায় ২০০ সেনা পালিয়ে গেছে।

মায়ানমারের সেনাশাসিত সরকার বেশ কয়েকটি অঞ্চলে সশস্ত্র বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর সঙ্গে লড়াই করছে। জান্তা বাহিনী সীমান্ত অঞ্চলের অনেকগুলো লড়াইয়ে পরপর পরাজয় বরণ করেছে।

মায়াওয়াদ্দি শহরটি থাইল্যান্ডের ম্যা সো শহরের কাছে। সেখান থেকে জান্তা বাহিনী পিছু হটায় তারা আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ সীমান্ত ক্রসিংয়ের নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছে।

মায়াওয়াদ্দিতে জান্তা বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে নেতৃত্ব দিচ্ছে জান্তা বিরোধী গোষ্ঠী কারেন ন্যাশনাল ইউনিয়ন (কেএনইউ)। শহরটির নিয়ন্ত্রণ করায়ত্ব করায় গোষ্ঠীটির অবস্থান শক্তিশালী হয়েছে।

তবে শহরটিতে মায়ানমারের সেনাবাহিনীর পাল্টা হামলার আশঙ্কা আছে। শহরটি পুনর্দখলের চেষ্টায় বিমান বাহিনীর সহায়তায় মায়ানমারের সেনাবাহিনী সেখানে আবার অভিযান চালাতে পারে।

ফলে আগামী দিনগুলোতে লড়াই আরও বাড়ার আশঙ্কা আছে বলেই মনে করছেন থাইল্যান্ডের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া স্টাডিজের এক সহকারী অধ্যাপক।

মায়াওয়াদ্দির এক অধিবাসী তার ৫ বছরের ছেলেকে নিয়ে সীমান্ত পেরিয়ে থাইল্যান্ডে ঢুকেছেন। তিনি জানান, বিমান হামলার ভয়ে তিনি মিয়ানমারের সীমান্ত শহর ছেড়ে পালিয়ে এসেছেন।

থাইল্যান্ডের ম্যা সো শহরের সীমান্ত শহরে জড়ো হওয়া আরেক মা বলেন, বিকট শব্দে তার বাড়ি কেঁপে উঠেছিল। বোমার শব্দের কারণে ভয়ে তারা বাড়িঘর ছেড়ে আসতে বাধ্য হয়েছেন। “থাইল্যান্ডে তো আর তারা বোমা মারতে পারবে না,” বলেন তিনি।

মায়ানমারে লড়াই বাড়তে থাকায় মায়াওয়াদ্দি থেকে থাইল্যান্ডের ম্যা সো শহরে পালিয়ে যাওয়া মানুষের সংখ্যা এ সপ্তাহে দ্বিগুণ বেড়ে দিনে প্রায় ৪ হাজার হয়েছে।

বৃহস্পতিবার থাই প্রধানমন্ত্রী শ্রেথা থাভিসিন বলেন, মায়ানমারের লড়াই থাইল্যান্ডে ছড়িয়ে পড়া উচিত হবে না।

ছবি

পাপুয়া নিউ গিনির ভূমিধসে ‘চাপা: ২ হাজারেরও বেশি’

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রে ঝড়ে নিহত অন্তত ১৮

ছবি

ইরানে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে প্রার্থী হওয়ার ইঙ্গিত আহমাদিনেজাদের

ছবি

রিমালের ছোবলে পশ্চিমবঙ্গে একজনের মৃত্যু, বৃষ্টিপাত অব্যাহত

ছবি

গাজায় বাস্তুচ্যুতদের শিবিরে ইসরায়েলের ভয়াবহ হামলা, নিহত অন্তত ৩৫

ছবি

গাজায় ইসরায়েলি সেনা আটকের দাবি হামাসের

ছবি

গুজরাটে খেলাধুলার স্থানে ভয়াবহ আগুন, ২৪ জনের মৃত্যু

ছবি

জাতিসংঘ আদালতের রায় : আর ঘোষণা নয়,পদক্ষেপ চান ফিলিস্তিনিরা

ছবি

রাফায় অভিযান : জাতিসংঘ আদালতের রায় প্রত্যাখ্যান ইসরায়েলের

ছবি

মহড়ার মাধ্যমে তাইওয়ান দখলের সক্ষমতা যাচাই করছে চীন

ছবি

গাজাজুড়ে ইসরায়েলের ভয়াবহ হামলা

ছবি

ইসরায়েলের আরও ৩ জিম্মির মরদেহ উদ্ধার

ছবি

জর্জিয়ার ওপর ভিসা নিষেধাজ্ঞা দিচ্ছে যুক্তরাষ্ট্র

ছবি

ভিয়েতনামে বহুতল ভবনে অগ্নিকাণ্ডে নিহত ১৪

ছবি

তীর্থে যাওয়ার পথে সড়ক দুর্ঘটনায় একই পরিবারের নিহত ৭

ছবি

মায়ানমারের রাখাইনে নতুন সংঘাত, উদ্বাস্তু হাজারো মানুষ

ছবি

সিঙ্গাপুর এয়ারলাইন্সের সেই ফ্লাইটের ২০ আরোহী আইসিইউতে

ছবি

আমেরিকার কাছে সিরিজ হারের পর যা বললেন সাকিব

ছবি

গাজাজুড়ে ইসরায়েলের ভয়াবহ হামলা, নিহত অন্তত ৫০

ছবি

তাইওয়ানের চারপাশে চীনের সামরিক মহড়া ‘উদ্বেগজনক’ : যুক্তরাষ্ট্র

ছবি

প্যালেস্টাইন রাষ্ট্রকে ‘একতরফা স্বীকৃতি’ দেয়ার বিরোধিতা হোয়াইট হাউসের

ছবি

মেক্সিকোয় নির্বাচনী প্রচারণার মঞ্চ ভেঙে নিহত ৯

ছবি

গাজা যুদ্ধ : মধ্যস্থতাকারীর ভূমিকা থেকে সরে যাওয়ার হুমকি মিসরের

ছবি

গাজায় আরও হামলা চালানোর হুমকি ইসরায়েলের

ছবি

আগাম নির্বাচনের ঘোষণা যুক্তরাজ্যে

ছবি

দুবাই মেট্রো রেড লাইন পরিষেবা ২ ঘন্টা পর পুনরায় চালু

ছবি

ফিলিস্তিনকে আজই রাষ্ট্রের স্বীকৃতি দেবে আয়ারল্যান্ড: রয়টার্স

ছবি

নাইজেরিয়ায় বন্দুকধারীদের গুলিতে নিহত ৪০

ছবি

অনলাইনে প্রয়াত প্রেসিডেন্টকে ‘অপমানকারীদের’ গ্রেপ্তারের নির্দেশ

ছবি

ভারতের উত্তরে তীব্র তাপপ্রবাহ, দক্ষিণে ভারী বৃষ্টির পূর্বাভাস

ছবি

হেলিকপ্টার বিধ্বস্তে রাইসির মৃত্যু, যুক্তরাষ্ট্রের সহায়তা পায়নি ইরান

ছবি

ইসরায়েলি বাহিনী গাজায় গণহত্যা চালাচ্ছে না : বাইডেন

ছবি

রাইসির মৃত্যুতে ইরানে পাঁচ দিনের শোক

ছবি

রাইসির মৃত্যুতে বিশ্বনেতাদের শোক

ছবি

ইরানে হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত, প্রেসিডেন্ট রাইসির লাশ উদ্ধার

ছবি

ইরানের অন্তর্বর্তীকালীন প্রেসিডেন্ট হচ্ছেন মোহাম্মদ মোখবার

tab

আন্তর্জাতিক

মায়ানমারের সীমান্ত শহরের বাসিন্দারা থাইল্যান্ডে পালাচ্ছে

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট

শুক্রবার, ১২ এপ্রিল ২০২৪

মায়ানমারে জান্তা-বিরোধী বিদ্রোহী বাহিনীর কাছে সীমান্ত শহর মায়াওয়াদ্দির পতনের পর থাইল্যান্ডে পালাতে থাকা মানুষের ঢল থামছেই না। শুক্রবার সকালে থাই সীমান্ত ক্রসিংয়ে দেখা গেছে সারি সারি মানুষ। অনেকেই বিমান হামলার ভয়ে থাইল্যান্ডে পালাচ্ছেন।

বিদ্রোহী বাহিনীর সঙ্গে কয়েকদিন ধরে চলা লড়াইয়ে থাইল্যান্ড সীমান্তবর্তী মায়াওয়াদ্দি শহরের একটি সেতুর নিয়ন্ত্রণ হারায় মায়ানমারের সামরিক বাহিনী।

বৃহস্পতিবার কেয়ন রাজ্যের মায়াওয়াদ্দি শহরের ওই সেতুটি থেকে মায়ানমারের জান্তা বাহিনীর প্রায় ২০০ সেনা পালিয়ে গেছে।

মায়ানমারের সেনাশাসিত সরকার বেশ কয়েকটি অঞ্চলে সশস্ত্র বিদ্রোহী গোষ্ঠীগুলোর সঙ্গে লড়াই করছে। জান্তা বাহিনী সীমান্ত অঞ্চলের অনেকগুলো লড়াইয়ে পরপর পরাজয় বরণ করেছে।

মায়াওয়াদ্দি শহরটি থাইল্যান্ডের ম্যা সো শহরের কাছে। সেখান থেকে জান্তা বাহিনী পিছু হটায় তারা আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ সীমান্ত ক্রসিংয়ের নিয়ন্ত্রণ হারিয়েছে।

মায়াওয়াদ্দিতে জান্তা বাহিনীর বিরুদ্ধে লড়াইয়ে নেতৃত্ব দিচ্ছে জান্তা বিরোধী গোষ্ঠী কারেন ন্যাশনাল ইউনিয়ন (কেএনইউ)। শহরটির নিয়ন্ত্রণ করায়ত্ব করায় গোষ্ঠীটির অবস্থান শক্তিশালী হয়েছে।

তবে শহরটিতে মায়ানমারের সেনাবাহিনীর পাল্টা হামলার আশঙ্কা আছে। শহরটি পুনর্দখলের চেষ্টায় বিমান বাহিনীর সহায়তায় মায়ানমারের সেনাবাহিনী সেখানে আবার অভিযান চালাতে পারে।

ফলে আগামী দিনগুলোতে লড়াই আরও বাড়ার আশঙ্কা আছে বলেই মনে করছেন থাইল্যান্ডের একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের দক্ষিণ-পূর্ব এশিয়া স্টাডিজের এক সহকারী অধ্যাপক।

মায়াওয়াদ্দির এক অধিবাসী তার ৫ বছরের ছেলেকে নিয়ে সীমান্ত পেরিয়ে থাইল্যান্ডে ঢুকেছেন। তিনি জানান, বিমান হামলার ভয়ে তিনি মিয়ানমারের সীমান্ত শহর ছেড়ে পালিয়ে এসেছেন।

থাইল্যান্ডের ম্যা সো শহরের সীমান্ত শহরে জড়ো হওয়া আরেক মা বলেন, বিকট শব্দে তার বাড়ি কেঁপে উঠেছিল। বোমার শব্দের কারণে ভয়ে তারা বাড়িঘর ছেড়ে আসতে বাধ্য হয়েছেন। “থাইল্যান্ডে তো আর তারা বোমা মারতে পারবে না,” বলেন তিনি।

মায়ানমারে লড়াই বাড়তে থাকায় মায়াওয়াদ্দি থেকে থাইল্যান্ডের ম্যা সো শহরে পালিয়ে যাওয়া মানুষের সংখ্যা এ সপ্তাহে দ্বিগুণ বেড়ে দিনে প্রায় ৪ হাজার হয়েছে।

বৃহস্পতিবার থাই প্রধানমন্ত্রী শ্রেথা থাভিসিন বলেন, মায়ানমারের লড়াই থাইল্যান্ডে ছড়িয়ে পড়া উচিত হবে না।

back to top