alt

আন্তর্জাতিক

পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতি

চার বছর পর বিজেপি ছেড়ে ফের তৃণমূলে পুত্রসহ মুকুল রায়

দীপক মুখার্জী, কলকাতা : শনিবার, ১২ জুন ২০২১
image

বেশ কয়েকদিন ধরে পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতিতে পালাবদলের যে ইঙ্গিত ছিল অবশেষে সেই জল্পনার আবসান হলো। প্রায় চার বছর পর গতকাল বিকেলে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে ফিরে এসেছিন পুত্রসহ মুকুল রায়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপস্থিতিতে এদিন তৃণমূল ভবনে ছেলে শুভ্রাংশু রায়কে নিয়ে নিজের পুরনো দলে যোগ দেন তিনি। আর বিজেপি পার্টি করা যাচ্ছিল না জানিয়েই তৃণমূলে ফিরেছেন মুকুল। ২০১৭ সালের নভেম্বরে বিজেপিতে যোগ দেন মুকুল। রাজনৈতিক মহলে জল্পনা ছিল একাধিক দুর্নীতিতে অভিযুক্ত থাকায় নিজের পিঠ বাঁচাতেই বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন মুকুল। যদিও বিজেপিতে মুকুল রায়ের অবস্থান কখনই সুখকর ছিল না। বিজেপির আভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে দিলীপ ঘোষের সঙ্গে তার দ্বন্দ্বের বিযয়টি ছিল স্পষ্ট।

তবে ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির ১৮ আসন পাওয়ার পেছনে মুকুল রায়ের যে বড় ভূমিকা ছিল, এ কথা সবাই জানে। কিন্তু এরপর বিজেপিতে খুব একটা গুরুত্ব পাননি মুকুল। বিজেপিতে যোগ দেয়ার সময় তাকে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বা তার চেয়েও ভালো অবস্থানে রাখার কথা থাকলেও পরবর্তীতে তাকে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতির যে পদ দেয়া হয়েছিল, মুকুল রায়ের ভাষায় তাও ছিল মূলত আলঙ্কারিক।

বিধানসভা নির্বাচনের আগে থেকেই দলে কার্যত কোণঠাসা হয়ে পড়েন মুকুল। তাকে কৃষ্ণনগর কেন্দ্রে টিকিট দেয় দল। কিন্তু নির্বাচনে দাঁড়ানোর ইচ্ছে ছিল না মুকুলের। দলের হাইকমান্ডের নির্দেশে রাজি হতে হয় তাকে। সেখান থেকে জিতলেও বিধানসভা নির্বাচনের পরও প্রকাশ্যে দেখা যায়নি মুকুলকে। বস্তুত বিজেপি রাজ্যে ক্ষমতা দখল করতে না পারায় একরকম দলবদলের সিদ্ধান্ত নিয়েই ফেলেছিলেন মুকুল। সম্প্রতি তার অসুস্থ স্ত্রীকে দেখতে গিয়েছিলেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানেই একরকম স্পষ্ট হয়ে যায় মুকুল রায় ও তার ছেলের তৃণমূলে যোগদানের বিষয়টি।

এদিন তৃণমূল ভবনে দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত থেকে দলীয় পতাকা নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিলেন মুকুল রায়। তার সঙ্গে যোগ দিলেন ছেলে শুভ্রাংশু রায়। আবার নিজের পুরনো ঘরেই ফিরলেন মুকুল রায়। তবে কোন পদে তাকে নিয়োগ করা হবে তা নিয়ে জল্পনা রয়েছে। মনে করা হচ্ছে মূলত ২০২৪-এর লোকসভা নির্বাচনকে টার্গেট করেই মুকুল রায়কে ফেরানো হলো। ঘরে ফিরল ঘরের ছেলে। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত থেকে উত্তরীয় পরেন মুকুল এবং শুভ্রাংশ। তৃণমূল ছাড়ার সময় যে পদ ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন মুকুল রায়, সেই পদে এখন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। কয়েকদিন আগেই তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক পদে বসানো হয়েছে অভিষেককে।

বিজেপিতে গিয়ে ভালো ছিলেন না মুকুল। সাংবাদিক বৈঠকে মমতা বন্দোপাধ্যায় এই দাবি করে বলেছেন, বিজেপি করা যায় না। সেখানে যারা গেছে তারা বলতে পারবে কী কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে থাকতে হয় তাদের। মুকুলও থাকতে পারছিল না।

তৃণমূলে যোগ দিয়েই মুকুল রায় সাংবাদিকদের বলেন, ‘এই ঘরে আজকের এই সভায় আমার নিজের খুব ভালো লাগছে। পুরনো মানুষদের সঙ্গে দেখা হচ্ছে। বিজেপি থেকে বেরিয়ে এসে নতুন আঙিনায় দেখা হচ্ছে কথা বলতে পারছি। আমার ভালো লাগছে। বাংলা আবার তার নিজের জায়গায় ফিরবে। সামনে থেকে বাংলাকে নেতৃত্ব দেবেন ভারতের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।’ তবে কেন তিনি বিজেপিতে থাকতে পারলেন না তার ব্যাখ্যা দেননি। সেটা লিখিত আকারে তিনি পরে জানাবেন বলে জানিয়েছেন।

মুকুল রায়ের তৃণমূলে ফেরার প্রসঙ্গে শুক্রবার ভারতীয় জনতা যুব মোর্চার সভাপতি সৌমিত্র খাঁ বলেন, মুকুল রায় বাংলার আর এক মিরজাফর। উনি যদি রাজনৈতিক চাণক্য হতেন তাহলে ছেলেকে বীজপুর থেকে জেতাতে পারতেন। মিরজাফররা কখনও ভালো হতে পারে না। এই মিরজাফর বাংলার অনেক ক্ষতি করবে।’

এ ব্যাপারে এদিন বিজেপির অন্য রাজ্য বা কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের কোন মন্তব্য শোনা যায়নি। তবে সদ্য বিজেপি বিধায়াক মুকুল রায়ের তৃণমূলে যোগ দেয়া বঙ্গ বিজেপিতে অস্বস্তি বেড়েছে।

ছবি

বৈশ্বিক টাস্ক ফোর্সের প্রতিবেদন, টিকাদানে বাংলাদেশ পেছনের কাতারে

ছবি

সীমান্তে ইসরায়েলি সেনাদের আনাগোনা, হুঁশিয়ারি লেবাননের

ছবি

চীনে আরও দুই এলাকায় কারোনা, কয়েক স্থানে লকডাউন

ছবি

করোনার ডেল্টা ধরন শিশুদের আক্রমণ করে না: ডব্লিউএইচও

ছবি

প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ‘লড়তে চান’ গাদ্দাফির ছেলে

ছবি

পাকিস্তানে ঝুঁকিপূর্ণ শ্রমে জড়িত ৩৩ লাখ শিশু

ছবি

পেগাসাস কাণ্ড : ইসরাইলি গোয়েন্দাদের এনএসও দপ্তরে তল্লাশি

ছবি

তেলের ট্যাংকারে হামলায় নিহত ২, ইসরায়েল দুষছে ইরানকে

ছবি

লকডাউন কার্যকরে সিডনিতে নামছে সামরিক বাহিনী

ছবি

আফগান দোভাষীদের প্রথম দল যুক্তরাষ্ট্রের পথে

ছবি

বিদেশি পর্যটকদের জন্য দরজা খুলে দিচ্ছে সৌদি, থাকবে যে শর্ত

ছবি

যে নারী আইপিএস বিজেপি ‘মন্ত্রী’কে চড় মেরেছিলেন!

ছবি

বেড়েই চলেছে ভারতে করোনা সংক্রমণ

ছবি

ইকুয়াটোরিয়াল গিনি আটক করলো ফ্রান্সের সামরিক হেলিকপ্টার

ছবি

তালেবান প্রতিনিধিদল চীন সফর করল

ছবি

ফিলিস্তিনি শিশুকে গুলি করে হত্যা করলো ইসরাইলি সেনারা

ছবি

চীনের বিরুদ্ধে আফগানিস্তানের মাটি ব্যবহার করতে দেবে না তালেবান

ছবি

পদ্মার ইলিশ হিলি সীমান্ত দিয়ে পাচার হচ্ছে ভারতে : হিন্দুস্তান টাইমস

ছবি

পাকিস্তানের প্রধাণমন্ত্রী হতে চান দাউদ ইব্রাহিমের কথিত প্রেমিকা

ছবি

বিশ্বে করোনায় মৃত্যু ছাড়ালো ৪২ লাখ

ছবি

ফের সিডনিতে ৪ সপ্তাহের লকডাউন

ছবি

এক সপ্তাহে আফগানিস্তানে তালেবানের ১৫২৮ জন নিহত

ছবি

লেবাননের সংকট সমাধানে দ্রুত সরকার গঠনের আহ্বান

ছবি

আফগানিস্তানের সঙ্গে ইরানের সীমান্ত পূর্ণ নিরাপত্তা বজায় রয়েছে : আইআরজিসি

ছবি

আজ জাপানে আঘাত হানবে ঘূর্ণিঝড় নেপারতাক

ছবি

চীন মজুদ বাড়াচ্ছে পারমাণবিক বোমার, উদ্বিগ্ন যুক্তরাষ্ট্র

ছবি

ভারতে লরিচাপায় ১৮ শ্রমিক নিহত, আহত ২৪

সাত দিনে ৯০ শতাংশ প্রাপ্তবয়স্কদের টিকা দিলো ভুটান

ছবি

হাইতির প্রেসিডেন্টকে হত্যার ঘটনায় নিরাপত্তা প্রধান গ্রেফতার

ছবি

মহারাষ্ট্রে আরো তিন দিনের ভারি বৃষ্টি ও ভূমিধসে মৃত্যু বেড়ে ১৯২

ছবি

৪৬ আফগান সেনাকে আশ্রয় দিলো পাকিস্তান

ছবি

লিবিয়ায় নৌকা ডুবি, ৫৭ শরণার্থীর মৃত্যুর শঙ্কা

ছবি

আমেরিকাকে চীনের কড়া বার্তা

ছবি

২৬ সেপ্টেম্বর নিউ ইয়র্কে আন্তর্জাতিক লোক সঙ্গীত সম্মেলন

ছবি

আজাদ কাশ্মির নির্বাচনে ইমরান খানের দলের বিজয়

আসামে মিজো পুলিশের গুলিতে আসামের ৫ পুলিশ নিহত

tab

আন্তর্জাতিক

পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতি

চার বছর পর বিজেপি ছেড়ে ফের তৃণমূলে পুত্রসহ মুকুল রায়

দীপক মুখার্জী, কলকাতা
image

শনিবার, ১২ জুন ২০২১

বেশ কয়েকদিন ধরে পশ্চিমবঙ্গের রাজনীতিতে পালাবদলের যে ইঙ্গিত ছিল অবশেষে সেই জল্পনার আবসান হলো। প্রায় চার বছর পর গতকাল বিকেলে বিজেপি ছেড়ে তৃণমূলে ফিরে এসেছিন পুত্রসহ মুকুল রায়।

মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উপস্থিতিতে এদিন তৃণমূল ভবনে ছেলে শুভ্রাংশু রায়কে নিয়ে নিজের পুরনো দলে যোগ দেন তিনি। আর বিজেপি পার্টি করা যাচ্ছিল না জানিয়েই তৃণমূলে ফিরেছেন মুকুল। ২০১৭ সালের নভেম্বরে বিজেপিতে যোগ দেন মুকুল। রাজনৈতিক মহলে জল্পনা ছিল একাধিক দুর্নীতিতে অভিযুক্ত থাকায় নিজের পিঠ বাঁচাতেই বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন মুকুল। যদিও বিজেপিতে মুকুল রায়ের অবস্থান কখনই সুখকর ছিল না। বিজেপির আভ্যন্তরীণ রাজনীতিতে দিলীপ ঘোষের সঙ্গে তার দ্বন্দ্বের বিযয়টি ছিল স্পষ্ট।

তবে ২০১৯ সালের লোকসভা নির্বাচনে বিজেপির ১৮ আসন পাওয়ার পেছনে মুকুল রায়ের যে বড় ভূমিকা ছিল, এ কথা সবাই জানে। কিন্তু এরপর বিজেপিতে খুব একটা গুরুত্ব পাননি মুকুল। বিজেপিতে যোগ দেয়ার সময় তাকে কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বা তার চেয়েও ভালো অবস্থানে রাখার কথা থাকলেও পরবর্তীতে তাকে বিজেপির সর্বভারতীয় সহ-সভাপতির যে পদ দেয়া হয়েছিল, মুকুল রায়ের ভাষায় তাও ছিল মূলত আলঙ্কারিক।

বিধানসভা নির্বাচনের আগে থেকেই দলে কার্যত কোণঠাসা হয়ে পড়েন মুকুল। তাকে কৃষ্ণনগর কেন্দ্রে টিকিট দেয় দল। কিন্তু নির্বাচনে দাঁড়ানোর ইচ্ছে ছিল না মুকুলের। দলের হাইকমান্ডের নির্দেশে রাজি হতে হয় তাকে। সেখান থেকে জিতলেও বিধানসভা নির্বাচনের পরও প্রকাশ্যে দেখা যায়নি মুকুলকে। বস্তুত বিজেপি রাজ্যে ক্ষমতা দখল করতে না পারায় একরকম দলবদলের সিদ্ধান্ত নিয়েই ফেলেছিলেন মুকুল। সম্প্রতি তার অসুস্থ স্ত্রীকে দেখতে গিয়েছিলেন তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। সেখানেই একরকম স্পষ্ট হয়ে যায় মুকুল রায় ও তার ছেলের তৃণমূলে যোগদানের বিষয়টি।

এদিন তৃণমূল ভবনে দলনেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত থেকে দলীয় পতাকা নিয়ে তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিলেন মুকুল রায়। তার সঙ্গে যোগ দিলেন ছেলে শুভ্রাংশু রায়। আবার নিজের পুরনো ঘরেই ফিরলেন মুকুল রায়। তবে কোন পদে তাকে নিয়োগ করা হবে তা নিয়ে জল্পনা রয়েছে। মনে করা হচ্ছে মূলত ২০২৪-এর লোকসভা নির্বাচনকে টার্গেট করেই মুকুল রায়কে ফেরানো হলো। ঘরে ফিরল ঘরের ছেলে। অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের হাত থেকে উত্তরীয় পরেন মুকুল এবং শুভ্রাংশ। তৃণমূল ছাড়ার সময় যে পদ ছেড়ে বিজেপিতে যোগ দিয়েছিলেন মুকুল রায়, সেই পদে এখন অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়। কয়েকদিন আগেই তৃণমূলের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক পদে বসানো হয়েছে অভিষেককে।

বিজেপিতে গিয়ে ভালো ছিলেন না মুকুল। সাংবাদিক বৈঠকে মমতা বন্দোপাধ্যায় এই দাবি করে বলেছেন, বিজেপি করা যায় না। সেখানে যারা গেছে তারা বলতে পারবে কী কঠিন পরিস্থিতির মধ্যে থাকতে হয় তাদের। মুকুলও থাকতে পারছিল না।

তৃণমূলে যোগ দিয়েই মুকুল রায় সাংবাদিকদের বলেন, ‘এই ঘরে আজকের এই সভায় আমার নিজের খুব ভালো লাগছে। পুরনো মানুষদের সঙ্গে দেখা হচ্ছে। বিজেপি থেকে বেরিয়ে এসে নতুন আঙিনায় দেখা হচ্ছে কথা বলতে পারছি। আমার ভালো লাগছে। বাংলা আবার তার নিজের জায়গায় ফিরবে। সামনে থেকে বাংলাকে নেতৃত্ব দেবেন ভারতের নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।’ তবে কেন তিনি বিজেপিতে থাকতে পারলেন না তার ব্যাখ্যা দেননি। সেটা লিখিত আকারে তিনি পরে জানাবেন বলে জানিয়েছেন।

মুকুল রায়ের তৃণমূলে ফেরার প্রসঙ্গে শুক্রবার ভারতীয় জনতা যুব মোর্চার সভাপতি সৌমিত্র খাঁ বলেন, মুকুল রায় বাংলার আর এক মিরজাফর। উনি যদি রাজনৈতিক চাণক্য হতেন তাহলে ছেলেকে বীজপুর থেকে জেতাতে পারতেন। মিরজাফররা কখনও ভালো হতে পারে না। এই মিরজাফর বাংলার অনেক ক্ষতি করবে।’

এ ব্যাপারে এদিন বিজেপির অন্য রাজ্য বা কেন্দ্রীয় নেতৃত্বের কোন মন্তব্য শোনা যায়নি। তবে সদ্য বিজেপি বিধায়াক মুকুল রায়ের তৃণমূলে যোগ দেয়া বঙ্গ বিজেপিতে অস্বস্তি বেড়েছে।

back to top