alt

আন্তর্জাতিক

করোনার নতুন দুই চিকিৎসার অনুমোদন দিল ডব্লিউএইচও

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : শুক্রবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২২

করোনাভাইরাসের নতুন দুই চিকিৎসাপদ্ধতির অনুমোদন দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। স্থানীয় সময় আজ শুক্রবার এএফপির প্রতিবেদনে এসব খবর জানা গেছে। গুরুতর অসুস্থতা ও মৃত্যু প্রতিরোধ করতে টিকার পাশাপাশি নতুন এই চিকিৎসাপদ্ধতি ব্যবহার করা যাবে।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে করোনার অমিক্রন ধরনে সংক্রমিত ব্যক্তিদের হাসপাতালে যাওয়ার হার বাড়ছে। ডব্লিউএইচও আশঙ্কা করছে, আগামী মার্চ মাসের মধ্যে ইউরোপের অর্ধেক করোনা সংক্রমিত হবে।

ব্রিটিশ মেডিকেল জার্নালে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, করোনায় গুরুতর অসুস্থ রোগীদের কর্টিকসটারয়েডস নামে একটি ওষুধের সঙ্গে আর্থ্রাইটিসের ওষুধ বারিসিটিনিব প্রয়োগ করলে ভেন্টিলেশনে নেওয়ার ঝুঁকি কমে যায়। মৃত্যুর ঝুঁকিও কমে।

যাঁরা বয়স্ক, রোগ প্রতিরোধক্ষমতা কম কিংবা ডায়াবেটিসের মতো কোনো রোগে ভুগছেন, তাঁদের করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে যাওয়ার ঝুঁকি কমাতে বিশেষজ্ঞরা সিনথেটিক অ্যান্টিবডি চিকিৎসাপদ্ধতি সট্রোভিম্যাবের সুপারিশ করেছেন। তবে করোনা সংক্রমিত যাঁদের হাসপাতালে চিকিৎসা নেওয়ার ঝুঁকি কম, তাঁদের ক্ষেত্রে সট্রোভিমাব প্রয়োগের খুব বেশি প্রয়োজন আছে বলে মনে করা হয় না। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, অমিক্রনের মতো করোনার নতুন ধরনের বিরুদ্ধে এটি কতটা কার্যকর, তা এখনো অনিশ্চিত।

গত বছর করোনাভাইরাসের আরও তিনটি চিকিৎসাপদ্ধতি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পেয়েছে। গত বছরের সেপ্টেম্বরে করোনাভাইরাস সংক্রমিত গুরুতর অসুস্থ ব্যক্তিদের চিকিৎসায় কর্টিকসটারয়েডসের প্রয়োগ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পায়। কর্টিকসটারয়েডের দাম কম। গুরুতর অসুস্থতার ক্ষেত্রে এটি দ্রুত কার্যকর।

গত বছরের জুলাইয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পায় আর্থ্রাইটিসের আরও দুটি ওষুধ টসিলিজুম্যাব ও সারিলুম্যাব। তবে এসব ওষুধ থেকে নতুন অনুমোদন পাওয়া বারিসিটিনিব কিছুটা আলাদা।

গত বছরের সেপ্টেম্বরে সিনথেটিক অ্যান্টিবডি চিকিৎসাপদ্ধতি রেজেনিরন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পেয়েছে। বলা হচ্ছে, একই ধরনের রোগীদের ক্ষেত্রে একইভাবে কার্যকর হবে সট্রোভিম্যাব।

ছবি

ইন্দোনেশিয়ায় কারাওকে বারে ঝগড়া, অগ্নিসংযোগে মৃত্যু ১৯ জনের

ছবি

এবার অমিক্রনের উপধরন যেসব প্রশ্ন সামনে এনেছে

ছবি

প্রবাসী বাংলাদেশির কাছে ক্ষমা চাইলেন মিশিগানের সেই বিচারক

ছবি

সৌদি আরবে প্রতি ঘণ্টায় ৭ বিবাহবিচ্ছেদ

ছবি

বুরকিনা ফাসোর প্রেসিডেন্টকে পদচ্যুত করেছে সেনাবাহিনী

ছবি

ইউক্রেইন নিয়ে উত্তেজনা : ৮,৫০০ মার্কিন সেনা সতর্ক অবস্থায়

ছবি

আফগানিস্তানে মার্চ থেকে স্কুল খুলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত

ছবি

দুই মেয়েকে বিক্রির পর নিজের কিডনিও বেচে দিলেন মা

ছবি

ইউরোপে মহামারির ‘খেলা শেষ’ হতে যাচ্ছে: ডব্লিউএইচও

ছবি

বুরকিনা ফাসোর প্রেসিডেন্ট সেনা ক্যাম্পে আটক

ছবি

মেক্সিকোতে ৩ হাজারেরও বেশি অভিবাসী উদ্ধার

ছবি

ভারতে টানা পাঁচ দিন ধরে দৈনিক শনাক্ত ৩ লাখের উপরে

ছবি

দূতাবাস কর্মীদের পরিবারকে ইউক্রেইন ছাড়তে বললো যুক্তরাষ্ট্র

ছবি

বাংলাদেশী আহত, সৌদি আরবে হুতি ক্ষেপণাস্ত্র হামলা

ছবি

ক্যামেরুনে নাইটক্লাবে অগ্নিকাণ্ড, নিহত ১৬

ছবি

ইউক্রেনে রুশপন্থী নেতাকে ক্ষমতায় আনার চক্রান্ত চলছে : যুক্তরাজ্য

ছবি

‘আমার বিয়েও হবে না’

ছবি

কত ডোজ নিলে ‘ভ্যাক্সিনেটেড’ বলা যাবে?

ছবি

উত্তরপ্রদেশে কংগ্রেসের মুখ্যমন্ত্রী প্রার্থী প্রিয়াঙ্কা?

ছবি

ইউক্রেন ইস্যুতে উত্তেজনা হ্রাসে সম্মত যুক্তরাষ্ট্র-রাশিয়া

ছবি

কয়েক ঘণ্টার ব্যবধানে ভূমিকম্পে কাঁপলো এশিয়ার ৬ দেশ

ছবি

বিশ্বজুড়ে করোনায় একদিনে শনাক্তের রেকর্ড

ছবি

মুম্বাইয়ে বহুতল ভবনে অগ্নিকাণ্ড, নিহত ৭

ছবি

মায়ানমার ছাড়ছে শেভরন, টোটাল

ছবি

বাংলাদেশ সরকারকে লিওনার্দো ডিক্যাপ্রিওর অভিনন্দন

ছবি

পশ্চিমারা স্বৈরাচারের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াবে, হুঁশিয়ারি ব্রিটেনের

ছবি

‘জনপ্রিয়তার জরিপে’ শীর্ষে মোদী, বাইডেন ষষ্ঠ ট্রুডো সপ্তম

ছবি

পাকিস্তানের লাহোরে বোমা হামলায় নিহত ৩, আহত অর্ধশতাধিক

ছবি

লাইবেরিয়ায় গির্জায় পদদলিত হয়ে ২৯ জনের মৃত্যু

ছবি

খাবার, পানির সঙ্কট টোঙ্গায়, যাচ্ছে আরও সহায়তা

ছবি

ঘানায় ভয়াবহ বিস্ফোরণে ৫০০ ভবন ধস, বহু হতাহতের শঙ্কা

ছবি

বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত নুসরাত চৌধুরী মার্কিন ফেডারেল বিচারপতি মনোনীত

ছবি

রোহিঙ্গা গণহত্যা বিষয়ে আইসিজেতে শুনানি ফেব্রুয়ারিতে

ছবি

সংবাদ সম্মেলনে সহজ প্রশ্ন চাইলেন বাইডেন

ছবি

কনজারভেটিভ এমপি’র দলত্যাগ, মদপার্টির খেসারত দিচ্ছেন জনসন

ছবি

মুম্বাইয়ে যুদ্ধজাহাজে বিস্ফোরণ, ভারতীয় নৌবাহিনীর তিন সদস্য নিহত

tab

আন্তর্জাতিক

করোনার নতুন দুই চিকিৎসার অনুমোদন দিল ডব্লিউএইচও

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট

শুক্রবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২২

করোনাভাইরাসের নতুন দুই চিকিৎসাপদ্ধতির অনুমোদন দিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও)। স্থানীয় সময় আজ শুক্রবার এএফপির প্রতিবেদনে এসব খবর জানা গেছে। গুরুতর অসুস্থতা ও মৃত্যু প্রতিরোধ করতে টিকার পাশাপাশি নতুন এই চিকিৎসাপদ্ধতি ব্যবহার করা যাবে।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে করোনার অমিক্রন ধরনে সংক্রমিত ব্যক্তিদের হাসপাতালে যাওয়ার হার বাড়ছে। ডব্লিউএইচও আশঙ্কা করছে, আগামী মার্চ মাসের মধ্যে ইউরোপের অর্ধেক করোনা সংক্রমিত হবে।

ব্রিটিশ মেডিকেল জার্নালে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, করোনায় গুরুতর অসুস্থ রোগীদের কর্টিকসটারয়েডস নামে একটি ওষুধের সঙ্গে আর্থ্রাইটিসের ওষুধ বারিসিটিনিব প্রয়োগ করলে ভেন্টিলেশনে নেওয়ার ঝুঁকি কমে যায়। মৃত্যুর ঝুঁকিও কমে।

যাঁরা বয়স্ক, রোগ প্রতিরোধক্ষমতা কম কিংবা ডায়াবেটিসের মতো কোনো রোগে ভুগছেন, তাঁদের করোনায় আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে যাওয়ার ঝুঁকি কমাতে বিশেষজ্ঞরা সিনথেটিক অ্যান্টিবডি চিকিৎসাপদ্ধতি সট্রোভিম্যাবের সুপারিশ করেছেন। তবে করোনা সংক্রমিত যাঁদের হাসপাতালে চিকিৎসা নেওয়ার ঝুঁকি কম, তাঁদের ক্ষেত্রে সট্রোভিমাব প্রয়োগের খুব বেশি প্রয়োজন আছে বলে মনে করা হয় না। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বলছে, অমিক্রনের মতো করোনার নতুন ধরনের বিরুদ্ধে এটি কতটা কার্যকর, তা এখনো অনিশ্চিত।

গত বছর করোনাভাইরাসের আরও তিনটি চিকিৎসাপদ্ধতি বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পেয়েছে। গত বছরের সেপ্টেম্বরে করোনাভাইরাস সংক্রমিত গুরুতর অসুস্থ ব্যক্তিদের চিকিৎসায় কর্টিকসটারয়েডসের প্রয়োগ বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পায়। কর্টিকসটারয়েডের দাম কম। গুরুতর অসুস্থতার ক্ষেত্রে এটি দ্রুত কার্যকর।

গত বছরের জুলাইয়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পায় আর্থ্রাইটিসের আরও দুটি ওষুধ টসিলিজুম্যাব ও সারিলুম্যাব। তবে এসব ওষুধ থেকে নতুন অনুমোদন পাওয়া বারিসিটিনিব কিছুটা আলাদা।

গত বছরের সেপ্টেম্বরে সিনথেটিক অ্যান্টিবডি চিকিৎসাপদ্ধতি রেজেনিরন বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার অনুমোদন পেয়েছে। বলা হচ্ছে, একই ধরনের রোগীদের ক্ষেত্রে একইভাবে কার্যকর হবে সট্রোভিম্যাব।

back to top