alt

শোক ও স্মরন

হুমায়ুন আজাদের ১৮তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক : শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২

আজ ১২ আগস্ট। লেখক, ভাষাবিজ্ঞানী ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. হুমায়ুন আজাদের ১৮তম মৃত্যুবার্ষিকী। ২০০৪ সালের এই দিনে জার্মানির মিউনিখ শহরে তিনি মারা যান।

২০০৪ সালে সন্ত্রাসী হামলার পর ড. হুমায়ুন আজাদ ২২ দিন সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ও ৪৮ দিন ব্যাংককে চিকিৎসা নেন। ওই বছরের ১২ আগস্ট জার্মানির মিউনিখে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

১৯৪৭ সালের ২৮ এপ্রিল মুন্সিগঞ্জের বিক্রমপুরের কামারগাঁয়ে নানা বাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন হুমায়ুন আজাদ। যেটি বর্তমানে মুন্সিগঞ্জ জেলার শ্রীনগর উপজেলার অন্তর্গত। জন্মের পর নাম ছিল হুমায়ুন কবীর।

১৯৬৯ সালে মাত্র ২২ বছর বয়সে চট্টগ্রাম কলেজে প্রভাষক হিসেবে শিক্ষকতা জীবন শুরু হয় এই লেখকের। সেখানে কিছুদিন থাকার পর ১৯৭০ সালের ফেব্রুয়ারিতে তিনি যোগ দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে প্রভাষক হিসেবে। একই বছরের ডিসেম্বরে তিনি ঢাকায় ফিরে যোগ দেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলা বিভাগের প্রভাষক হিসেবে।

হুমায়ুন আহমেদের রাজনৈতিক লেখালেখি ও বস্তুনিষ্ঠ সমালোচনার সূচনা হয় আশির দশকেই। আশির দশকের শেষভাগ থেকে হুমায়ুন আজাদ সমসাময়িক রাজনীতি নিয়ে গণমাধ্যমে বক্তব্য রাখতে শুরু করেন। এ সময় তিনি খবরের কাগজ নামীয় সাপ্তাহিক পত্রিকায় সম্পাদকীয় নিবন্ধন লিখতে শুরু করেন। সামরিক শাসনের বিরোধিতা দিয়ে সূচনা হয় তার রাজনৈতিক লেখালেখি।

উগ্রবাদীদের বিরুদ্ধে লেখার কারণে ২০০৪ সালের ২৭ ফেব্রুয়ারি বাংলা একাডেমিতে একুশে বইমেলা থেকে বেরিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে নিজের বাসায় ফেরার পথে ঘাতকেরা তার ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। আহত অবস্থায় তাকে প্রথমে ঢাকার সিএমএইচে নেওয়া হয়। পরে থাইল্যান্ডে চিকিৎসায় তিনি খানিকটা সুস্থ হন।

ওই বছরই ৭ আগস্ট বিখ্যাত জার্মান কবি হাইনরিখ হাইনের ওপর গবেষণা বৃত্তি নিয়ে জার্মানি যান তিনি। ১১ আগস্ট রাতে একটি অনুষ্ঠান থেকে ফেরার পর হঠাৎ শরীর খারাপ হয়। তার কিছুক্ষণের মধ্যেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন এই ভাষাবিজ্ঞানী।

ছবি

শিল্পী কাইয়ুম চৌধুরীর ৮ম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

মানসম্পন্ন সাংবাদিকতার চর্চা করলে সাংবাদিক জগলুলের প্রতি শ্রদ্ধা জানানো সার্থক হবে: পররাষ্ট্রমন্ত্রী

ছবি

‘আহমদুল কবির ছিলেন ক্ষণজন্মা, নির্লোভ মানবপ্রেমিক’

ছবি

রাজনীতি ও সাংবাদিকতায় প্রতিভাদীপ্ত ব্যক্তিত্ব আহমদুল কবির

ছবি

সাংবাদিক খন্দকার মুনীরুজ্জামানের ২য় মৃত্যুবার্ষিকী আজ

ছবি

সাংবাদিক আসাদুজ্জামান বাচ্চু আর নেই

শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক স্মরণে নওগাঁয় বক্তৃতা প্রতিযোগিতা

হাতিয়া উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদকের মৃত্যু

ছবি

রংপুরের সাংবাদিক আফতাব হোসেন মারা গেছেন

ছবি

মাসুম আজিজের মৃত্যুতে প্রধানমন্ত্রীর শোক

ছবি

সাংবাদিক রণেশ মৈত্র আর নেই

ছবি

নাট্যনির্মাতা সাখাওয়াত মানিক আর নেই

বাসের ধাক্কায় প্রেসক্লাব সভাপতির মৃত্যু

ছবি

প্রধানমন্ত্রীর উপ-প্রেস সচিব তুষারের বাবার মৃত্যুবার্ষিকী আজ

ছবি

সড়ক দুর্ঘটনায় মারা গেছেন চিত্রগ্রাহক জাহিদ হোসেন

ছবি

অভিনেতা আনিসুর রহমান মিলনের স্ত্রী আর নেই

ছবি

লরি চাপায় ট্রাফিক পুলিশ কনস্টেবল নিহত

ছবি

উত্তরায় গার্ডার ধসে নিহতের ঘটনায় প্রধানমন্ত্রীর শোক

ছবি

রাজনীতিতে ফজলে রাব্বি মিয়ার মতো জনদরদী মানুষ বিরল: ড. আতিউর

ছবি

সাংবাদিক অমিত হাবিব মারা গেছেন

ছবি

চলচ্চিত্র ব্যক্তিত্ব মোহাম্মদ সালাহউদ্দিনের ৩০তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

ছবি

শাবিপ্রবিতে ছুরিকাঘাতে নিহত বুলবুলের বাড়ি নরসিংদীতে শোকের মাতম

ছবি

জয়পুরহাটের সাবেক এমপি আব্বাস আলী মণ্ডলের মৃত্যু

ছবি

চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন ডেপুটি স্পিকার ফজলে রাব্বী মিয়া

ছবি

ডেপুটি স্পিকারের লাশ দেশে আসবে সোমবার

ছবি

বেতারের মহাপরিচালক আহম্মদ কামরুজ্জামান আর নেই

ছবি

ডা. শাহাদাৎ হোসেনের মৃত্যুবার্ষিকী কাল

ছবি

কথা সাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের মৃত্যুবার্ষিকী আজ

চারঘাট প্রেসক্লাব সভাপতি মোজাম্মেল হক মারা গেছেন

ড. এনামুল হক চির নিদ্রায় শায়িত হলেন তার প্রতিষ্ঠিত মসজিদ প্রাঙ্গনে

ছবি

একুশে পদকপ্রাপ্ত বিচারপতি কাজী এবাদুল হক মারা গেছেন

ছবি

জাকারিয়া খান মজলিশ মারা গেছেন

ছবি

কিংবদন্তি সংগীত পরিচালক আলম খান আর নেই

ছবি

চলচ্চিত্র নির্মাতা তরুণ মজুমদারের প্রয়াণ

ছবি

সাবেক অর্থমন্ত্রী মরহুম আবুল মাল আবদুল মুহিতের স্মরণসভা ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

ছবি

সিনিয়র সাংবাদিক গিয়াস উদ্দিন আহমেদ মারা গেছেন

tab

শোক ও স্মরন

হুমায়ুন আজাদের ১৮তম মৃত্যুবার্ষিকী আজ

সংবাদ অনলাইন ডেস্ক

শুক্রবার, ১২ আগস্ট ২০২২

আজ ১২ আগস্ট। লেখক, ভাষাবিজ্ঞানী ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অধ্যাপক ড. হুমায়ুন আজাদের ১৮তম মৃত্যুবার্ষিকী। ২০০৪ সালের এই দিনে জার্মানির মিউনিখ শহরে তিনি মারা যান।

২০০৪ সালে সন্ত্রাসী হামলার পর ড. হুমায়ুন আজাদ ২২ দিন সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে (সিএমএইচ) ও ৪৮ দিন ব্যাংককে চিকিৎসা নেন। ওই বছরের ১২ আগস্ট জার্মানির মিউনিখে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

১৯৪৭ সালের ২৮ এপ্রিল মুন্সিগঞ্জের বিক্রমপুরের কামারগাঁয়ে নানা বাড়িতে জন্মগ্রহণ করেন হুমায়ুন আজাদ। যেটি বর্তমানে মুন্সিগঞ্জ জেলার শ্রীনগর উপজেলার অন্তর্গত। জন্মের পর নাম ছিল হুমায়ুন কবীর।

১৯৬৯ সালে মাত্র ২২ বছর বয়সে চট্টগ্রাম কলেজে প্রভাষক হিসেবে শিক্ষকতা জীবন শুরু হয় এই লেখকের। সেখানে কিছুদিন থাকার পর ১৯৭০ সালের ফেব্রুয়ারিতে তিনি যোগ দেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের বাংলা বিভাগে প্রভাষক হিসেবে। একই বছরের ডিসেম্বরে তিনি ঢাকায় ফিরে যোগ দেন জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে বাংলা বিভাগের প্রভাষক হিসেবে।

হুমায়ুন আহমেদের রাজনৈতিক লেখালেখি ও বস্তুনিষ্ঠ সমালোচনার সূচনা হয় আশির দশকেই। আশির দশকের শেষভাগ থেকে হুমায়ুন আজাদ সমসাময়িক রাজনীতি নিয়ে গণমাধ্যমে বক্তব্য রাখতে শুরু করেন। এ সময় তিনি খবরের কাগজ নামীয় সাপ্তাহিক পত্রিকায় সম্পাদকীয় নিবন্ধন লিখতে শুরু করেন। সামরিক শাসনের বিরোধিতা দিয়ে সূচনা হয় তার রাজনৈতিক লেখালেখি।

উগ্রবাদীদের বিরুদ্ধে লেখার কারণে ২০০৪ সালের ২৭ ফেব্রুয়ারি বাংলা একাডেমিতে একুশে বইমেলা থেকে বেরিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে নিজের বাসায় ফেরার পথে ঘাতকেরা তার ওপর অতর্কিত হামলা চালায়। আহত অবস্থায় তাকে প্রথমে ঢাকার সিএমএইচে নেওয়া হয়। পরে থাইল্যান্ডে চিকিৎসায় তিনি খানিকটা সুস্থ হন।

ওই বছরই ৭ আগস্ট বিখ্যাত জার্মান কবি হাইনরিখ হাইনের ওপর গবেষণা বৃত্তি নিয়ে জার্মানি যান তিনি। ১১ আগস্ট রাতে একটি অনুষ্ঠান থেকে ফেরার পর হঠাৎ শরীর খারাপ হয়। তার কিছুক্ষণের মধ্যেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন এই ভাষাবিজ্ঞানী।

back to top