alt

খেলা

শেখ মেহেদী বললেন, ‘উপভোগের থেকে চ্যালেঞ্জটা বেশি’

ক্রীড়া প্রতিবেদক : সোমবার, ২০ মে ২০২৪

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে বিসিবি ধারাবাহিক সাক্ষাৎকার প্রকাশ করছেন ক্রিকেটারদের। দলের সঙ্গে থাকা কোচ এবং খেলোয়াড়রা জানাচ্ছেন নিজেদের কথা। সেই ভিডিওতে আজকের পর্বে কথা বলেছেন স্পিন বোলিং অলরাউন্ডার শেখ মেহেদী হাসান। শুরুতে জানান বিশ্বকাপ খেলা নিয়ে গর্বের কথা।

মেহেদী বলছিলেন, আমরা সারাবছর কষ্ট করি একজন জাতীয় দলের খেলোয়াড় হিসেবে যারাই খেলে দেখা যায় যে একটা বছর আপনি জাতীয় দলে টানা খেলতেছেন সামনে একটা বিশ্বকাপ ওইটা নিয়েই সবার এক্সসাইটমেন্ট কাজ করে একজন খেলোয়াড়ের ভেতরে এবং বিশ্বকাপের দলে থাকা গৌরবের বিষয়। এটা আসলে ভাষায় প্রকাশ করা যায় না।

২০২১ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেললেও ২০২২ সালে জাতীয় দল থেকে বাদ পড়েন মেহেদী। এরপর ২০২৩ সালে আবার ফেরেন দলে। এক বছর পরের এমন ফেরা নিয়ে মেহেদী বলেন, দল থেকে বাদ পড়লে যে কোনো খেলোয়াড়ের জন্যই খারাপ লাগে। আমার ক্ষেত্রেও একই ছিল। কিন্তু ফেরাটা অনেক চ্যালেঞ্জিং ছিল। আল্লাহর অশেষ রহমতে আবার ফিরতে পেরেছি আলহামদুলিল্লাহ।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট উপভোগের থেকে চ্যালেঞ্জের বেশি মনে করেন মেহেদী, উপভোগ করার থেকে চ্যালেঞ্জটা অনেক বেশি ওখানে। যেহেতু পাওয়ারপ্লেতে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট, রানের খেলা। তো এখানে নিজেকে যত কম রানে আটকানো যায় বোলিং করে ওইটা বেশি চ্যালেঞ্জ থাকে। উপভোগ থেকে কঠিন পরিস্থিতি থাকে পাওয়ার প্লেতে। উপভোগটা একদমই থাকে না, ওখানে যদি উপভোগটা করতে পারি তাহলে দলের বেনিফিটটা বেশি হয়।

ছবি

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের সুপার এইট-এ বাংলাদেশ

টিভিতে আজকের খেলা

ছবি

নেপালের বিদায়ে যেমন হলো বাংলাদেশের সুপার এইট সমীকরণ

ছবি

‘অন্যদের থেকে আলাদা’ হতে চেয়ে সফল ফারুকি

ছবি

ইংল্যান্ডকে বিদায় করতে কোনো কৌশলের আশ্রয় নিবে না অস্ট্রেলিয়া

ছবি

মেসি-মার্তিনেজের জোড়া গোলে আর্জেন্টিনার জয়

ছবি

জয়ে থাকতে চায় ভারত, অঘটনের লক্ষ্য কানাডার

টিভিতে আজকের খেলা

ছবি

মুস্তাফিজের প্রশংসায় ভারতের সাবেক ক্রিকেটার

টিভিতে আজকের খেলা

ছবি

হজের আনুষ্ঠানিকতা শুরু

ছবি

আমেরিকাও বুকে কাঁপুনি ধরিয়ে দিয়েছিল : রোহিত

ছবি

ইউরো চ্যাম্পিয়নশীপ শুরু আজ : ফেবারিট ফ্রান্স-ইংল্যান্ড, আশাবাদী স্বাগতিকরাও

ছবি

ডাচদের বিপক্ষে জয় পেল বাংলাদেশ

ছবি

সাকিবের ফিফটিতে ডাচদের ১৬০ রানের লক্ষ্য দিলো বাংলাদেশ

ছবি

নিউজিল্যান্ডের বিদায় প্রায় নিশ্চিত করে সুপার এইটে ওয়েস্ট ইন্ডিজ

ছবি

ব্রাজিলকে ১-১ গোলে রুখে দিয়েছে যুক্তরাষ্ট্র

টিভিতে আজকের খেলা

ছবি

পাঁচে নেমে গেলেন সাকিব

ছবি

নারীদের ক্রিকেট লীগে চ্যাম্পিয়ন মোহামেডান

ছবি

বাংলাদেশ-নেদারল্যান্ডস ম্যচ আজ, ডাচদের হারানোর লক্ষ্য টাইগারদের

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রকে হারিয়ে সুপার এইটে ভারত

বাংলাদেশের জালে লেবাননের এক হালি গোল

ছবি

পাওয়ার প্লেতেই ম্যাচ জিতে সুপার এইটে অস্ট্রেলিয়া

ছবি

বাংলাদেশ কোচকে বাস্তবতা শিক্ষা লেবাননের

ছবি

শ্রীলঙ্কা-নেপাল ম্যাচ পণ্ড, স্বস্তি বাড়ল বাংলাদেশের

টিভিতে আজকের খেলা

ছবি

আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে প্রথমবার মুখোমুখি ভারত ও যুক্তরাষ্ট্র

ছবি

দুই ম্যাচেই জিতে পরের পর্বে যাব : তানজিম

ছবি

কখনো মনে হয়নি এই ম্যাচ হারতে পারি : হৃদয়

এই ম্যাচ আমাদের জেতা উচিত ছিল : শান্ত

টিভিতে আজকের খেলা

ছবি

দক্ষিণ আফ্রিকার কাছে ৪ রানে হারল বাংলাদেশ

ছবি

ডি মারিয়ার গোলে আর্জেন্টিনার জয়

ছবি

উগান্ডা ৩৯ রানে অলআউট, টি-২০ ইতিহাসে সবচেয়ে বড় জয় ক্যারিবীয়ানদের

‘সাকিব অবশ্যই ফর্মে ফিরবে’

tab

খেলা

শেখ মেহেদী বললেন, ‘উপভোগের থেকে চ্যালেঞ্জটা বেশি’

ক্রীড়া প্রতিবেদক

সোমবার, ২০ মে ২০২৪

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ নিয়ে বিসিবি ধারাবাহিক সাক্ষাৎকার প্রকাশ করছেন ক্রিকেটারদের। দলের সঙ্গে থাকা কোচ এবং খেলোয়াড়রা জানাচ্ছেন নিজেদের কথা। সেই ভিডিওতে আজকের পর্বে কথা বলেছেন স্পিন বোলিং অলরাউন্ডার শেখ মেহেদী হাসান। শুরুতে জানান বিশ্বকাপ খেলা নিয়ে গর্বের কথা।

মেহেদী বলছিলেন, আমরা সারাবছর কষ্ট করি একজন জাতীয় দলের খেলোয়াড় হিসেবে যারাই খেলে দেখা যায় যে একটা বছর আপনি জাতীয় দলে টানা খেলতেছেন সামনে একটা বিশ্বকাপ ওইটা নিয়েই সবার এক্সসাইটমেন্ট কাজ করে একজন খেলোয়াড়ের ভেতরে এবং বিশ্বকাপের দলে থাকা গৌরবের বিষয়। এটা আসলে ভাষায় প্রকাশ করা যায় না।

২০২১ সালে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ খেললেও ২০২২ সালে জাতীয় দল থেকে বাদ পড়েন মেহেদী। এরপর ২০২৩ সালে আবার ফেরেন দলে। এক বছর পরের এমন ফেরা নিয়ে মেহেদী বলেন, দল থেকে বাদ পড়লে যে কোনো খেলোয়াড়ের জন্যই খারাপ লাগে। আমার ক্ষেত্রেও একই ছিল। কিন্তু ফেরাটা অনেক চ্যালেঞ্জিং ছিল। আল্লাহর অশেষ রহমতে আবার ফিরতে পেরেছি আলহামদুলিল্লাহ।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট উপভোগের থেকে চ্যালেঞ্জের বেশি মনে করেন মেহেদী, উপভোগ করার থেকে চ্যালেঞ্জটা অনেক বেশি ওখানে। যেহেতু পাওয়ারপ্লেতে টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট, রানের খেলা। তো এখানে নিজেকে যত কম রানে আটকানো যায় বোলিং করে ওইটা বেশি চ্যালেঞ্জ থাকে। উপভোগ থেকে কঠিন পরিস্থিতি থাকে পাওয়ার প্লেতে। উপভোগটা একদমই থাকে না, ওখানে যদি উপভোগটা করতে পারি তাহলে দলের বেনিফিটটা বেশি হয়।

back to top