alt

সারাদেশ

পঞ্চাশোর্ধ জরাজীর্ণ ভবনে পাঠদান : দুর্ঘটনার আশঙ্কা

গনেশ পাল, মোরেলগঞ্জ (বাগেরহাট) : শুক্রবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২১

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে চলছে পাঠদান। দুর্ঘটনার আশংকায় শিক্ষার্থীরা। কর্তৃপক্ষকে একাধিকবার অবহিত করেও হয়নি কোন প্রতিকার। সরেজমিন দেখা গেছে, খাউলিয়া ইউনিয়নে ১৯৬৮ সালে স্থাপিত ১৭০ নং নিশানবাড়িয়া তাছেন উদ্দিন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। ১৯৯৩-১৯৯৪ অর্থ বছরে সরকারিভাবে নির্মিত হয় ৩ কক্ষ বিশিষ্ট বিদ্যালয়ের এ ভবনটি। এখন জরাজীর্ণ ওই ভবনটিতে চলছে শিক্ষার্থীদের পাঠদান। প্রতিটি কক্ষ থেকে পলেস্তরা খসে খসে পড়ছে। ফাটলকৃত মূল ভবনের বিভিন্ন স্থানে কাপড় দিয়ে ডেকে রাখা হয়েছে। বেরিয়ে গেছে ছাদের কংক্রিট রট। এর মধ্যেই জীবনের ঝুঁকি নিয়ে শিক্ষার্থীদের পাঠদান দিচ্ছেন শিক্ষকরা। বিদ্যালয় নেই স্যানিটেশন ব্যবস্থা। অস্থায়ী ভিত্তিতে কাঠের একটি টয়লেট ব্যবহার করছেন শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা। সুপেয় পানির নেই কোন ব্যবস্থা। এ বিদ্যালয়ে শিক্ষক মন্ডলির ৫টি পদ থাকলেও কর্মরত শিক্ষক রয়েছেন ৩ জন। বিদ্যালয়ে প্রবেশ করেই চোঁখে পড়ে একটি কক্ষে ক্লাস চলছে ৫ম শ্রেনীর। শিক্ষার্থী কারিমা আক্তার, মাহফুজ, নাহিদ হাসান, ফাতেমা আক্তারসহ একাধিকরা বলেন, এক সপ্তাহ পূর্বে ক্লাশ চলাকালিন সময় হঠাৎ ছাদ খসে পড়ে ক্লাশের মধ্যে আল্লাহ রহমত করেছে আমাদের গায়ে পড়েনি। আমাদের এ স্কুলের ভবনের দৈন্যদশার অবসান হবে কবে এমন একাধিক প্রশ্ন তুলেন সংবাদকর্মীদের পেয়ে শিশু শিক্ষার্থীরা। এ সম্পর্কে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষাক মো. সিরাজুল ইসলাম জানান, বিদ্যালয়ের ঝুঁকিপূর্ণ এ ভবনটির বিষয় একাধিকবার অবহিত করা হয়েছে। ইতোমধ্যে সাবেক সংশ্লিষ্ট ক্লাস্টার সহকারী শিক্ষা অফিসার মো. জাকির হোসেন সরেজমিন পরিদর্শন করে শিক্ষা কর্মকর্তাকে লিখিতভাবে জানিয়েছেন। তবে এখনও পর্যন্ত পরিত্যাক্ত ভবন হিসেবে ঘোষণা হয়নি। এ বিষয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসার মো. জালাল উদ্দিন বলেন, তাছেন উদ্দিন বিদ্যালয়টি পরিত্যক্ত ভবনের তালিকায় পাঠানো হয়েছে। এছাড়াও এ উপজেলায় ৩১টি নতুন ভবনের নির্মাণাধীন কাজ চলমান রয়েছে। সয়েল টেস্টেও রয়েছে অনেক বিদ্যালয়।

ছবি

ফরিদপুর ও বরিশালের ৩৭শ টেলিফোন নম্বর পরিবর্তন হচ্ছে

ছবি

নারায়ণগঞ্জে আইনজীবী সমিতি নির্বাচনে পূর্ণ প্যানেলে এগিয়ে আ’লীগ

ছবি

আসামি নিয়ে গাড়ি পুকুরে, দুই পুলিশের মৃত্যু

ছবি

সেন্টমার্টিন থেকে সাব মেশিনগানসহ ১২ লাখ ইয়াবা উদ্ধার

ছবি

ফের আগুনে পুড়লো ক্যাম্প, দিশেহারা কয়েক হাজার রোহিঙ্গা

ছবি

বিষমুক্ত সবজি চাষে ঝুঁকছেন বাহুবলের কৃষকরা

ফরিদপুরের সালথায় দুই পক্ষের সংঘর্ষ: আহত-১৫

ছবি

করোনায় আক্রান্ত সকল শিক্ষক, স্কুল বন্ধ ঘোষণা

ছবি

ফতুল্লায় স্কুলের সীমানা প্রচীর ধসে কিশোরসহ আহত ৩

ছবি

যশোরে ইজিবাইক চালকের মরদেহ উদ্ধার

ছবি

আগামীকাল ১৯ জানুয়ারি নির্মূল কমিটির ৩০তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী

ছবি

ফেনীতে গাছ পড়ে মোটরসাইকেল আরোহী নিহত

ছবি

সোনারগাঁয়ে ৪২ হাজার ইয়াবাসহ আটক ১

ছবি

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে আবারও আগুন

ছবি

আইনজীবী ইসমাইল বিয়ে করলেন ৮৭ বছরে

ছবি

শুধু নির্দেশনা দিয়েই শেষ, বিধি মানার কোন লক্ষণ নেই বাস-ট্রেনে

ধরন নিয়ে বিভ্রান্তি, বেড়েই চলেছে সংক্রমণ

নারায়ণগঞ্জ আইনজীবী সমিতির নির্বাচন কাল

ছবি

দশমিনায় বেড়েছে সরিষা আবাদ

জাটকা বাঁচলে ইলিশ হবে দুই লাখ টন

ছবি

কিশোরগঞ্জে বোরো রোপণের ধুম

কিশোরগঞ্জে নতুন করোনা শনাক্ত ১৬

চুয়াডাঙ্গায় করোনা আক্রান্ত ডিসি সিভিল সার্জন

প্রতিবেশগত সঙ্কটাপন্ন ঘোষণার ২২ বছরেও পদক্ষেপ নেই

নবজাতকের কপাল কাটা : মামলা

চট্টগ্রামে হু হু করে বাড়ছে করোনা : স্বাস্থ্যবিধির বালাই নেই

ছবি

ডক্টরস প্লাটফরম ইন ফিনল্যান্ডের কার্যনির্বাহী কমিটি গঠন

নারায়ণগঞ্জের মতোই সংসদ নির্বাচন চমৎকার হবে : তথ্যমন্ত্রী

‘ক্লিন সেন্ট মার্টিন’ প্রকল্প উদ্বোধন

কুমিল্লায় সহিংসতা মামলায় চেয়ারম্যানসহ জেলে ৪

ছবি

নদী ভাঙনে একশ’ গজে দুই স্কুল : টানাটানি শিক্ষার্থীদের

ছবি

আরসা প্রধানের ভাই গ্রেফতারের পর যা তথ্য দিয়েছেন তা যাচাই-বাছাই চলছে

ছবি

আইভীর হ্যাটট্রিক, তবে কমেছে ভোটের ব্যবধান

ছবি

মালিক সমিতির সিদ্ধান্তই মানছে না পরিবহন মালিকরা

করোনা, সংক্রমণ ছড়াচ্ছে ডেল্টা ভ্যারিয়েন্টই

ছবি

ভিটামিন ডি এর অভাবে করোনা আক্রান্তসহ নানা রোগের ঝুকি বেশী

tab

সারাদেশ

পঞ্চাশোর্ধ জরাজীর্ণ ভবনে পাঠদান : দুর্ঘটনার আশঙ্কা

গনেশ পাল, মোরেলগঞ্জ (বাগেরহাট)

শুক্রবার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২১

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে একটি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ঝুঁকিপূর্ণ ভবনে চলছে পাঠদান। দুর্ঘটনার আশংকায় শিক্ষার্থীরা। কর্তৃপক্ষকে একাধিকবার অবহিত করেও হয়নি কোন প্রতিকার। সরেজমিন দেখা গেছে, খাউলিয়া ইউনিয়নে ১৯৬৮ সালে স্থাপিত ১৭০ নং নিশানবাড়িয়া তাছেন উদ্দিন সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়। ১৯৯৩-১৯৯৪ অর্থ বছরে সরকারিভাবে নির্মিত হয় ৩ কক্ষ বিশিষ্ট বিদ্যালয়ের এ ভবনটি। এখন জরাজীর্ণ ওই ভবনটিতে চলছে শিক্ষার্থীদের পাঠদান। প্রতিটি কক্ষ থেকে পলেস্তরা খসে খসে পড়ছে। ফাটলকৃত মূল ভবনের বিভিন্ন স্থানে কাপড় দিয়ে ডেকে রাখা হয়েছে। বেরিয়ে গেছে ছাদের কংক্রিট রট। এর মধ্যেই জীবনের ঝুঁকি নিয়ে শিক্ষার্থীদের পাঠদান দিচ্ছেন শিক্ষকরা। বিদ্যালয় নেই স্যানিটেশন ব্যবস্থা। অস্থায়ী ভিত্তিতে কাঠের একটি টয়লেট ব্যবহার করছেন শিক্ষক ও শিক্ষার্থীরা। সুপেয় পানির নেই কোন ব্যবস্থা। এ বিদ্যালয়ে শিক্ষক মন্ডলির ৫টি পদ থাকলেও কর্মরত শিক্ষক রয়েছেন ৩ জন। বিদ্যালয়ে প্রবেশ করেই চোঁখে পড়ে একটি কক্ষে ক্লাস চলছে ৫ম শ্রেনীর। শিক্ষার্থী কারিমা আক্তার, মাহফুজ, নাহিদ হাসান, ফাতেমা আক্তারসহ একাধিকরা বলেন, এক সপ্তাহ পূর্বে ক্লাশ চলাকালিন সময় হঠাৎ ছাদ খসে পড়ে ক্লাশের মধ্যে আল্লাহ রহমত করেছে আমাদের গায়ে পড়েনি। আমাদের এ স্কুলের ভবনের দৈন্যদশার অবসান হবে কবে এমন একাধিক প্রশ্ন তুলেন সংবাদকর্মীদের পেয়ে শিশু শিক্ষার্থীরা। এ সম্পর্কে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষাক মো. সিরাজুল ইসলাম জানান, বিদ্যালয়ের ঝুঁকিপূর্ণ এ ভবনটির বিষয় একাধিকবার অবহিত করা হয়েছে। ইতোমধ্যে সাবেক সংশ্লিষ্ট ক্লাস্টার সহকারী শিক্ষা অফিসার মো. জাকির হোসেন সরেজমিন পরিদর্শন করে শিক্ষা কর্মকর্তাকে লিখিতভাবে জানিয়েছেন। তবে এখনও পর্যন্ত পরিত্যাক্ত ভবন হিসেবে ঘোষণা হয়নি। এ বিষয়ে উপজেলা শিক্ষা অফিসার মো. জালাল উদ্দিন বলেন, তাছেন উদ্দিন বিদ্যালয়টি পরিত্যক্ত ভবনের তালিকায় পাঠানো হয়েছে। এছাড়াও এ উপজেলায় ৩১টি নতুন ভবনের নির্মাণাধীন কাজ চলমান রয়েছে। সয়েল টেস্টেও রয়েছে অনেক বিদ্যালয়।

back to top