alt

সারাদেশ

ঋণ খেলাপির মামলায় ৩৭ কৃষকের জামিন

প্রতিনিধি, পাবনা : রোববার, ২৭ নভেম্বর ২০২২

পাবনার ঈশ্বরদীর চাঞ্চল্যকর ঋণ খেলাপি মামলায় গ্রেপ্তারকৃত ৩৭ জন কৃষককে জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত।

রোববার (২৭ নভেম্বর) সকাল ১১টার দিকে পাবনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিচারক মোহাম্মদ শামসুজ্জামান আসামিদের জামিন মঞ্জুর করেন।

কারাগারে থাকা জামিনপ্রাপ্তরা হলেন- আলম প্রামানিক (৫০), মাহাতাব মন্ডল (৪৫), কিতাব আলী (৫০), হান্নান মিয়া (৪৩), মজনু হোসেন (৪০), আতিয়ার রহমান (৫০), আব্দুল গণি মন্ডল (৫০), শামীম হোসেন (৪৫), সামাদ প্রামানিক (৪৩), নূর বক্স (৪৫), আকরাম হোসেন (৪৬), রজব আলী (৪০)। বাকিরা পালাতক।

গত বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার সকাল পর্যন্ত পুলিশ অভিযান চালিয়ে বাংলাদেশ সমবায় ব্যাংকের দায়ের করা ঋণ খেলাপি মামলায় ৩৭ জন আসামীর মধ্যে ১২ জন কৃষককে গ্রেপ্তার করে জেলহাজতে পাঠায়।

জানা যায়, ২০১৬ সালে ৩৭ জন প্রান্তিক কৃষকের একটি গ্রুপকে বাংলাদেশ সমবায় ব্যাংক জনপ্রতি ২৫ হাজার টাকা থেকে ৪০ হাজার টাকা পর্যন্ত ঋণ প্রদান করে। ঋণ খেলাপির দায়ে ২০২১ সালে ব্যাংকের পক্ষে তৎকালীন শাখা ব্যবস্থাপক সৈয়দ মোজাম্মেল হক মাহমুদ বাদী হয়ে ৩৭ জনের নামে মামলা করেন।

মামলায় আক্রান্ত একাধিক কৃষক ও তাদের পরিবারের দাবি, ঋণ গ্রহণের পর এক বছরের মাথায় অধিকাংশ ঋণগ্রহীতা তাদের ঋণ পরিশোধ করেছেন। তার পাশ বই ও জমা স্লিপও রয়েছে। অথচ সেই অর্থ ব্যাংকের সংশ্লিষ্ট মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তারা জমা না করে আত্মসাৎ করেছেন। ফলে তাদের হয়রানি ও ভোগান্তির শিকার হতে হয়েছে।

আদালত চত্বরে বাংলাদেশ কৃষক উন্নয়ন সোসাইটির কেন্দ্রীয় সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান ওরফে কুল ময়েজ বলেন, ‘গত বুধবারে যখন এসব কৃষকের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয় তখন সবাই এলাকায় শীতের রাতে গাজরের ক্ষেতে কাজ করছিলেন। বাড়িতে ও বিভিন্ন স্থান থেকে পুলিশ ১২ জনকে গ্রেপ্তার করে। বাকিরা গ্রেপ্তার আতংকে বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র চলে যান।’

তিনি আরো বলেন, ‘যেসব কৃষক সকালে ঘুম থেকে উঠে সারাদেশের মানুষের খাদ্য পণ্য উৎপাদনে নিজেকে সম্পৃক্ত করেন সেই কৃষককে হয়রানি মোটেও কাম্য নয়। অবিলম্বে কৃষকদের বিরুদ্ধে দায়ের করা এই হয়রানির মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছি।’

মামলায় হয়রানির শিকার কৃষক পরিবারের সদস্যরা গণমাধ্যমকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, মিডিয়ার অগ্রণী ভূমিকার কারণে আজ তাদের স্বজনেরা আইনী সহায়তা পেলেন। আইনী সহায়তা দেওয়ায় বসুন্ধরা গ্রুপকেও ধন্যবাদ জানান তারা।

বসুন্ধরা গ্রুপের সামাজিক ফোরাম পাবনা শুভ সংঘের উপদেষ্টা প্রবীর কুমার সাহা বলেন, ‘কৃষক হয়রানির খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে বসুন্ধরা গ্রুপ কৃষকদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। মামলার ৩৭ জনের জামিন ও গ্রেপ্তার হওয়া ১২ জনকে জামিনে মুক্ত করতে এবং অর্থনৈতিক সব সহায়তা প্রদান করছে বসুন্ধরা গ্রুপ।’

মামলার বাদী বাংলাদেশ সমবায় ব্যাংকের তৎকালীন শাখা ব্যবস্থাপক সৈয়দ মোজাম্মেল হক মাহমুদ বলেন, ‘কৃষকরা ঋণের টাকা পরিশোধ না করায় ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে মামলা করা হয়। খেলাপি ঋণ আদায়ে এটা চলমান প্রক্রিয়া। আমরা আমাদের অফিসিয়ালি ব্যবস্থা নিয়েছি। তারা তাদের আইনগত সহায়তা পেয়েছেন।’

আসামি পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সাইদুর রহমান সুমন বলেন, ‘গ্রেপ্তার হওয়া ১২ জন কৃষককে জামিনে মুক্তির নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক। একই সঙ্গে বিচারক বাকি ২৫ জনকেও জামিন দিয়েছেন।’

আসামিদের পক্ষে আদালতে শুনানিতে আরও উপস্থিত ছিলেন- অ্যাডভোকেট কাজী সাজ্জাদ ইকবাল লিটন ও অ্যাডভোকেট মইনুল ইসলাম মোহন।

ছবি

আট মাস পর তরল গ্যাস কিনেছে বাংলাদেশ

ছবি

পাবনা জেনারেল হাসপাতালের দ্বিতীয় দিনের মতো কর্মবিরতি নার্সদের

ছবি

ব্রাহ্মণবাড়িয়া কেন্দ্রগুলোতে নেই ভোটারদের সাড়া

ছবি

বগুড়ায় ভোটার কম, চোখে পড়ার মতো নৌকা সমর্থকদের

ছবি

উপ নির্বাচন ঠাকুরগাঁওয়ে সুষ্ঠুভাবে ভোট গ্রহণ চলছে ৫৫ ভাগ ভোট প্রদান

ছবি

ঠাকুরগাঁওয়ে ভোটকেন্দ্রে নেই ভোটারের দেখা

ছবি

ভোটার কম বগুড়ায়, শুধু তৎপর নৌকা

ছবি

অভাবের তাড়নায় সন্তান বিক্রি করল মা

ছবি

কুষ্টিয়ার ডিসি, এসপির বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার মামলা স্থগিত

ছবি

নৌকা ছাড়া অন্য প্রার্থীর এজেন্টদের বের করে দেওয়ার অভিযোগ

ছবি

উপ নির্বাচন: ভোট চলছে ছয় আসনে

ছবি

উকিল সাত্তারের আসনে ভোটার উপস্থিতি কম, ‘খোঁজ নেই’ আসিফেরও

ছবি

পাহাড়ের অশান্তি এখন সারাদেশের অশান্তি : মেনন

ছবি

ভোটগ্রহণের শুরুতেই দুই প্রার্থীর সমর্থকদের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া

বগুড়ায় পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ২ জন নিহত

ছবি

ফরিদপুরে নাইমার পাশে দাড়ালেন জেলা প্রশাসক

ছবি

ইজতেমা মাঠ পেলেন জুবায়েরপন্থীরা, একতরফা সিদ্ধান্ত বলে প্রতিক্রিয়া

ফসলি জমির মাটিতে ইট : জরিমানা অর্ধলাখ

অসৎ পথে উপার্জন কেউ ভোগ করতে পারবে না : দুদক সচিব

ছবি

কমিউনিটি ক্লিনিকে অনিয়মিত স্বাস্থ্যকর্মীরা : স্বাস্থ্যসেবা বঞ্চিত গারো পাহাড়ের মানুষ

সড়ক সংস্কারে নিম্নমানের খোয়া ব্যবহার

সোনারগাঁয়ে লোকজ উৎসবে উদীচীর সাংস্কৃতিক সন্ধ্যা

চসিকের পরিচালকের ওপর হামলা প্রতিবাদে এলজিইডির কর্মকর্তা কর্মচারীদের মানববন্ধন

ছবি

সীমান্তে তারকাঁটার বেড়া নিয়ে উত্তজেনা- পরে পতাকা বৈঠক

চসিকের পরিচালকের ওপর হামলা প্রতিবাদে এলজিইডির কর্মকর্তা কর্মচারীদের মানববন্ধন

ছবি

আওয়ামী লীগ নয়, দল করি শেখ মুজিবুর রহমানের: কাদের সিদ্দিকী

ছবি

এক যুগেও সংস্কার না হওয়ায় লোহার সেতু মরনফাঁদ

গরু চোরদের মারধর থেকে ছেলেকে বাঁচাতে গিয়ে নিহত মা

পুড়ে ছাই বসতঘর

দুই শিশুকে হত্যার দায়ে এক নারীর মৃত্যুদন্ড

ছবি

নানীকে কুপিয়ে হত্যার : নাতির যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

ছবি

১০ হাজার টাকায় ভাড়াটে খুনি নিয়ে ভাতিজাকে হত্যা

ছবি

অটোরিকশার ধাক্কায় ছিটকে পড়ে ট্রাক চাপায় নিহত

ছবি

আনসার মহা পরিচালক মেজর জেনারেল একে এম আমিনুল হকের শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন

ছবি

সীমান্ত সড়কের কাজের অগ্রগতি পরিদর্শন সেনাপ্রধানের

রাজশাহীতে ইএসডিও-রেসকিউ প্রকল্প ও রেঁস্তোরা মালিক সমিতির মতবিনিময়

tab

সারাদেশ

ঋণ খেলাপির মামলায় ৩৭ কৃষকের জামিন

প্রতিনিধি, পাবনা

রোববার, ২৭ নভেম্বর ২০২২

পাবনার ঈশ্বরদীর চাঞ্চল্যকর ঋণ খেলাপি মামলায় গ্রেপ্তারকৃত ৩৭ জন কৃষককে জামিন মঞ্জুর করেছেন আদালত।

রোববার (২৭ নভেম্বর) সকাল ১১টার দিকে পাবনার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিচারক মোহাম্মদ শামসুজ্জামান আসামিদের জামিন মঞ্জুর করেন।

কারাগারে থাকা জামিনপ্রাপ্তরা হলেন- আলম প্রামানিক (৫০), মাহাতাব মন্ডল (৪৫), কিতাব আলী (৫০), হান্নান মিয়া (৪৩), মজনু হোসেন (৪০), আতিয়ার রহমান (৫০), আব্দুল গণি মন্ডল (৫০), শামীম হোসেন (৪৫), সামাদ প্রামানিক (৪৩), নূর বক্স (৪৫), আকরাম হোসেন (৪৬), রজব আলী (৪০)। বাকিরা পালাতক।

গত বৃহস্পতিবার ও শুক্রবার সকাল পর্যন্ত পুলিশ অভিযান চালিয়ে বাংলাদেশ সমবায় ব্যাংকের দায়ের করা ঋণ খেলাপি মামলায় ৩৭ জন আসামীর মধ্যে ১২ জন কৃষককে গ্রেপ্তার করে জেলহাজতে পাঠায়।

জানা যায়, ২০১৬ সালে ৩৭ জন প্রান্তিক কৃষকের একটি গ্রুপকে বাংলাদেশ সমবায় ব্যাংক জনপ্রতি ২৫ হাজার টাকা থেকে ৪০ হাজার টাকা পর্যন্ত ঋণ প্রদান করে। ঋণ খেলাপির দায়ে ২০২১ সালে ব্যাংকের পক্ষে তৎকালীন শাখা ব্যবস্থাপক সৈয়দ মোজাম্মেল হক মাহমুদ বাদী হয়ে ৩৭ জনের নামে মামলা করেন।

মামলায় আক্রান্ত একাধিক কৃষক ও তাদের পরিবারের দাবি, ঋণ গ্রহণের পর এক বছরের মাথায় অধিকাংশ ঋণগ্রহীতা তাদের ঋণ পরিশোধ করেছেন। তার পাশ বই ও জমা স্লিপও রয়েছে। অথচ সেই অর্থ ব্যাংকের সংশ্লিষ্ট মাঠ পর্যায়ের কর্মকর্তারা জমা না করে আত্মসাৎ করেছেন। ফলে তাদের হয়রানি ও ভোগান্তির শিকার হতে হয়েছে।

আদালত চত্বরে বাংলাদেশ কৃষক উন্নয়ন সোসাইটির কেন্দ্রীয় সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান ওরফে কুল ময়েজ বলেন, ‘গত বুধবারে যখন এসব কৃষকের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করা হয় তখন সবাই এলাকায় শীতের রাতে গাজরের ক্ষেতে কাজ করছিলেন। বাড়িতে ও বিভিন্ন স্থান থেকে পুলিশ ১২ জনকে গ্রেপ্তার করে। বাকিরা গ্রেপ্তার আতংকে বাড়ি ছেড়ে অন্যত্র চলে যান।’

তিনি আরো বলেন, ‘যেসব কৃষক সকালে ঘুম থেকে উঠে সারাদেশের মানুষের খাদ্য পণ্য উৎপাদনে নিজেকে সম্পৃক্ত করেন সেই কৃষককে হয়রানি মোটেও কাম্য নয়। অবিলম্বে কৃষকদের বিরুদ্ধে দায়ের করা এই হয়রানির মামলা প্রত্যাহারের দাবি জানাচ্ছি।’

মামলায় হয়রানির শিকার কৃষক পরিবারের সদস্যরা গণমাধ্যমকে ধন্যবাদ জানিয়ে বলেন, মিডিয়ার অগ্রণী ভূমিকার কারণে আজ তাদের স্বজনেরা আইনী সহায়তা পেলেন। আইনী সহায়তা দেওয়ায় বসুন্ধরা গ্রুপকেও ধন্যবাদ জানান তারা।

বসুন্ধরা গ্রুপের সামাজিক ফোরাম পাবনা শুভ সংঘের উপদেষ্টা প্রবীর কুমার সাহা বলেন, ‘কৃষক হয়রানির খবর পাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে বসুন্ধরা গ্রুপ কৃষকদের পাশে দাঁড়িয়েছেন। মামলার ৩৭ জনের জামিন ও গ্রেপ্তার হওয়া ১২ জনকে জামিনে মুক্ত করতে এবং অর্থনৈতিক সব সহায়তা প্রদান করছে বসুন্ধরা গ্রুপ।’

মামলার বাদী বাংলাদেশ সমবায় ব্যাংকের তৎকালীন শাখা ব্যবস্থাপক সৈয়দ মোজাম্মেল হক মাহমুদ বলেন, ‘কৃষকরা ঋণের টাকা পরিশোধ না করায় ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে মামলা করা হয়। খেলাপি ঋণ আদায়ে এটা চলমান প্রক্রিয়া। আমরা আমাদের অফিসিয়ালি ব্যবস্থা নিয়েছি। তারা তাদের আইনগত সহায়তা পেয়েছেন।’

আসামি পক্ষের আইনজীবী অ্যাডভোকেট সাইদুর রহমান সুমন বলেন, ‘গ্রেপ্তার হওয়া ১২ জন কৃষককে জামিনে মুক্তির নির্দেশ দিয়েছেন বিচারক। একই সঙ্গে বিচারক বাকি ২৫ জনকেও জামিন দিয়েছেন।’

আসামিদের পক্ষে আদালতে শুনানিতে আরও উপস্থিত ছিলেন- অ্যাডভোকেট কাজী সাজ্জাদ ইকবাল লিটন ও অ্যাডভোকেট মইনুল ইসলাম মোহন।

back to top