alt

অর্থ-বাণিজ্য

এলপি গ্যাস : পাঁচ মাসে ৫ দফা দাম বাড়লো

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : রোববার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২৩

ভোক্তা পর্যায়ে বেসরকারি খাতের তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাসের দাম (এলপি গ্যাস) দাম টানা পাঁচ মাসে পাঁচ দফা বেড়েছে। রান্নায় বহুল ব্যবহৃত ১২ কেজি সিলিন্ডারের জন্য ডিসেম্বর মাসে ভোক্তাকে দিতে হবে ১ হাজার ৪০৪ টাকা, নভেম্বরে যা ছিল ১ হাজার ৩৮১ টাকা; বেড়েছে ২৩ টাকা।

অক্টোবরের তুলনায় নভেম্বরে সমপরিমাণ (১২ কেজি) এলপিজি সিলিন্ডারে ১৮টা বেড়েছিল। সেপ্টেম্বরের তুলনায় অক্টোবরে বেড়েছিল ৭৯ টাকা, আগস্টের তুলনায় সেপ্টেম্বরে বেড়েছিল ১৪৪ টাকা এবং জুলাইয়ের তুলনায় আগস্টে দাম বেড়েছিল ১৪১ টাকা। সে হিসেবে ১২ কেজি সিলিন্ডারে জুলাইয়ের তুলনায় ডিসেম্বরে দাম বেড়েছে ৪০৫ টাকা; বা ৪০ দশমিক ৫ শতাংশ।

বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (বিইআরসি) রোববার (৩ ডিসেম্বর) বিকেলে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে নিজস্ব কার্যালয়ে এলপিজির নতুন দর ঘোষণা করে।

ডিসেম্বর মাসের জন্য সৌদি আরামকো ঘোষিত সিপি অনুযায়ী এলপিজির কাঁচামাল প্রোপেন ও বিউটেনের মিশ্রনের গড় মূল্য ধরা হয়েছে প্রতি টন ৬১৬ দশমিক ৫০ ডলার, যা আগের মাস নভেম্বরেও একই ছিল।

বিইআরসির চেয়ারম্যান মো. নূরুল আমিন সংবাদ সম্মেলনে জানান, আন্তর্জাতিক বাজারদর অপরিবর্তিত থাকলেও ডলার ঊর্ধ্বমুখী হওয়ায় দাম বেড়েছে। গত মাসে ডলারের গড়দর ছিল ১১৩ টাকা ৯২ পয়সা, যা চলতি মাসে কিছুটা বাড়িয়ে ১১৬ টাকা ৩৯ পয়সা ধরা হয়েছে।

তবে বাজারে বিইআরসি নির্ধারিত দামে বেসরকারি এলপি গ্যাস পাওয়া যাচ্ছে না, আগেও পাওয়া যায়নি, এমন অভিযোগ অধিকাংশ ভোক্তার।

ডিসেম্বর মাসের জন্য বাসাবাড়িতে কেন্দ্রীয়ভাবে ব্যবহারের (রেকটিকুলেটেড) এলপিজির দাম নির্ধারণ করা হয়েছে প্রতি কেজি ১১৩ টাকা ২০ পয়সা, যা নভেম্বরে ১১১ টাকা ২৬ পয়সা ছিল। আর গাড়িতে ব্যবহৃত এলপিজির (অটোগ্যাস) নতুন দাম নির্ধারণ করা হয়েছে প্রতি লিটার প্রায় ৬৪ টাকা ৪৩ পয়সা, যা এতদিন ছিল ৬৩ টাকা ৩৬ পয়সা।

সরকারি প্রতিষ্ঠানের উৎপাদিত সাড়ে ১২ কেজির সিলিন্ডারের দাম আগের ৫৯১ টাকাই রয়েছে। যদিও এই এলপিজি সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছায় না। কারণ এটি এক থেকে সোয়া ১ শতাংশ চাহিদা পূরণ করতে পারে।

এক দশক আগে সরকার আবাসিক খাতে নতুন গ্যাস সংযোগ বন্ধ করে দেয়ার পর এলপি গ্যাসের ব্যবহার বাড়তে থাকে। বাসাবাড়ি, রেস্তোরাঁ, হোটেলগুলো গ্যাস সংযোগ না পেয়ে এলপিজি ব্যবহার শুরু করে।

বর্তমানে বাজারে সাড়ে ৫ কেজি থেকে শুরু করে ৪৫ কেজি পর্যন্ত বিভিন্ন আকারের এলপিজি সিলিন্ডার সরবরাহ করা হয়। বাসাবাড়িতে রান্নার পাশাপাশি রেস্তোরাঁ, পরিবহন, ছোট-বড় শিল্প-কারখানায়ও এলপিজি ব্যবহার করা হচ্ছে। এলপিজির বাজারের ৯৯ শতাংশই বেসরকারি খাতের দখলে।

ছবি

আবার বেড়েছে জ্বালানি তেলের দাম

ছবি

বাড়ল এলপিজির দাম

ছবি

আরসিবিসির বিরুদ্ধে যুক্তরাষ্ট্রের আদালতে মামলা চলবে

ছবি

ভারত থেকে এ সপ্তাহে ৫০ হাজার টন পেঁয়াজ আসবে: বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী

ছবি

শুল্ক কমানোর পরও বাড়লো চিনির দাম

ছবি

ডলার-টাকা অদলবদলে বেড়েছে রিজার্ভ

ছবি

ওয়ালটন ডিজিটাল ক্যাম্পেইনে ‘ননস্টপ মিলিয়নিয়ার’ হওয়ার সুযোগ

ছবি

রিহ্যাবের প্রেসিডেন্ট মো. ওয়াহিদুজ্জামান, সিনিয়র ভাইস প্রেসিডেন্ট লিয়াকত আলী ভূইয়া

ছবি

রিজার্ভ বৃদ্ধি ও আর্থিক কাঠামো সমৃদ্ধ করার লক্ষ্যে ‘অফশোর ব্যাংকিং’

ছবি

‘বছরে ২৪০ কোটি ডলারের কৃষিপণ্য নষ্ট’

ছবি

ছয় মাসে মোবাইল ব্যাংকিংয়ে লেনদেন ৬ লাখ ৮২ হাজার কোটি টাকা

ছবি

হল-মার্কের তানভীরের বিরুদ্ধে মামলায় রায় হয়নি

ছবি

নতুন ডেপুটি গভর্নর হয়েছেন খুরশীদ আলম ও ড. হাবিবুর রহমান

ছবি

শেয়ারপ্রতি এক টাকা লভ্যাংশ দেবে ইউনাইটেড ইন্স্যুরেন্স

ছবি

রিহ্যাব নির্বাচনে ব্যবসায়ী ঐক্য পরিষদের নিরঙ্কুশ জয়

ছবি

বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়কে ১৫ শতাংশ কর দিতেই হবে: আপিল বিভাগ

ছবি

চার বছরে খেলাপি ঋণ সিঙ্গেল ডিজিটে নিয়ে আসবো: জনতা ব্যাংকের এমডি

ছবি

‘উচ্চ মূল্যস্ফীতি কমানোর পথ খোঁজার তাগিদ’

ছবি

২৪ দিনে দেশে রেমিট্যান্স এলো ১৮ হাজার কোটি টাকা

ছবি

মেঘনা পিইটি ইন্ডাস্ট্রিজের পরিচালক হলেন ড. মাশরিক

ছবি

আমদানি নির্ভরতা, সিন্ডিকেটের কারণে জিনিসপত্রের দাম বাড়লেও করের বোঝাটাই সবার কাছে মাথা ব্যথার কারণ

ছবি

রমজানে দ্রব্যমূল্য বাড়ালে কঠোর ব্যবস্থা: সালমান এফ রহমান

ছবি

চড়া দামে আটকা বেশিরভাগ নিত্যপণ্য

ছবি

ভারত: চাল রপ্তানিতে শুল্ক আরোপের মেয়াদ বাড়াল ৩১ মার্চ

ছবি

উৎপাদন খরচ বাড়লেও বাড়েনি বইয়ের দাম

ছবি

সয়াবিন তেলের দাম লিটারে কমবে ১০ টাকা

ছবি

অর্থপাচারের ৮০ শতাংশই ব্যাংকিং চ্যানেলে : বিএফআইইউ

ছবি

সূচক বেড়ে পুঁজিবাজারে লেনদেন চলছে

ছবি

জিআই পণ্যের তালিকা করতে হাইকোর্টের নির্দেশ

ছবি

দেশ-বিদেশে পর্যটক আনতে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে : পর্যটনমন্ত্রী

ছবি

কৃষি ব্যাংকের খেলাপি ঋণ কমানো, লাভে নেয়াই লক্ষ্য : শওকত আলী খান

ছবি

অস্তিত্বের জন্য বৈশ্বিক তাপমাত্রা বৃদ্ধি সীমাবদ্ধ রাখতে হবে: সাবের হোসেন চৌধুরী

ছবি

ড. ইউনূসের ‘জবরদখলে’র অভিযোগ নিয়ে যা বলল গ্রামীণ ব্যাংক

ছবি

খেজুরের গুড়, মিষ্টি পান ও নকশিকাঁথা পেল জিআই স্বীকৃতি

ছবি

কর নেট বাড়ানোর জন্য ধীরে ধীরে কাজ করছি : এনবিআর চেয়ারম্যান

ছবি

জুলাই-সেপ্টেম্বর প্রান্তিকে জিডিপি প্রবৃদ্ধি ৬ দশমিক ০৭ শতাংশ

tab

অর্থ-বাণিজ্য

এলপি গ্যাস : পাঁচ মাসে ৫ দফা দাম বাড়লো

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট

রোববার, ০৩ ডিসেম্বর ২০২৩

ভোক্তা পর্যায়ে বেসরকারি খাতের তরলীকৃত পেট্রোলিয়াম গ্যাসের দাম (এলপি গ্যাস) দাম টানা পাঁচ মাসে পাঁচ দফা বেড়েছে। রান্নায় বহুল ব্যবহৃত ১২ কেজি সিলিন্ডারের জন্য ডিসেম্বর মাসে ভোক্তাকে দিতে হবে ১ হাজার ৪০৪ টাকা, নভেম্বরে যা ছিল ১ হাজার ৩৮১ টাকা; বেড়েছে ২৩ টাকা।

অক্টোবরের তুলনায় নভেম্বরে সমপরিমাণ (১২ কেজি) এলপিজি সিলিন্ডারে ১৮টা বেড়েছিল। সেপ্টেম্বরের তুলনায় অক্টোবরে বেড়েছিল ৭৯ টাকা, আগস্টের তুলনায় সেপ্টেম্বরে বেড়েছিল ১৪৪ টাকা এবং জুলাইয়ের তুলনায় আগস্টে দাম বেড়েছিল ১৪১ টাকা। সে হিসেবে ১২ কেজি সিলিন্ডারে জুলাইয়ের তুলনায় ডিসেম্বরে দাম বেড়েছে ৪০৫ টাকা; বা ৪০ দশমিক ৫ শতাংশ।

বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশন (বিইআরসি) রোববার (৩ ডিসেম্বর) বিকেলে রাজধানীর কারওয়ান বাজারে নিজস্ব কার্যালয়ে এলপিজির নতুন দর ঘোষণা করে।

ডিসেম্বর মাসের জন্য সৌদি আরামকো ঘোষিত সিপি অনুযায়ী এলপিজির কাঁচামাল প্রোপেন ও বিউটেনের মিশ্রনের গড় মূল্য ধরা হয়েছে প্রতি টন ৬১৬ দশমিক ৫০ ডলার, যা আগের মাস নভেম্বরেও একই ছিল।

বিইআরসির চেয়ারম্যান মো. নূরুল আমিন সংবাদ সম্মেলনে জানান, আন্তর্জাতিক বাজারদর অপরিবর্তিত থাকলেও ডলার ঊর্ধ্বমুখী হওয়ায় দাম বেড়েছে। গত মাসে ডলারের গড়দর ছিল ১১৩ টাকা ৯২ পয়সা, যা চলতি মাসে কিছুটা বাড়িয়ে ১১৬ টাকা ৩৯ পয়সা ধরা হয়েছে।

তবে বাজারে বিইআরসি নির্ধারিত দামে বেসরকারি এলপি গ্যাস পাওয়া যাচ্ছে না, আগেও পাওয়া যায়নি, এমন অভিযোগ অধিকাংশ ভোক্তার।

ডিসেম্বর মাসের জন্য বাসাবাড়িতে কেন্দ্রীয়ভাবে ব্যবহারের (রেকটিকুলেটেড) এলপিজির দাম নির্ধারণ করা হয়েছে প্রতি কেজি ১১৩ টাকা ২০ পয়সা, যা নভেম্বরে ১১১ টাকা ২৬ পয়সা ছিল। আর গাড়িতে ব্যবহৃত এলপিজির (অটোগ্যাস) নতুন দাম নির্ধারণ করা হয়েছে প্রতি লিটার প্রায় ৬৪ টাকা ৪৩ পয়সা, যা এতদিন ছিল ৬৩ টাকা ৩৬ পয়সা।

সরকারি প্রতিষ্ঠানের উৎপাদিত সাড়ে ১২ কেজির সিলিন্ডারের দাম আগের ৫৯১ টাকাই রয়েছে। যদিও এই এলপিজি সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছায় না। কারণ এটি এক থেকে সোয়া ১ শতাংশ চাহিদা পূরণ করতে পারে।

এক দশক আগে সরকার আবাসিক খাতে নতুন গ্যাস সংযোগ বন্ধ করে দেয়ার পর এলপি গ্যাসের ব্যবহার বাড়তে থাকে। বাসাবাড়ি, রেস্তোরাঁ, হোটেলগুলো গ্যাস সংযোগ না পেয়ে এলপিজি ব্যবহার শুরু করে।

বর্তমানে বাজারে সাড়ে ৫ কেজি থেকে শুরু করে ৪৫ কেজি পর্যন্ত বিভিন্ন আকারের এলপিজি সিলিন্ডার সরবরাহ করা হয়। বাসাবাড়িতে রান্নার পাশাপাশি রেস্তোরাঁ, পরিবহন, ছোট-বড় শিল্প-কারখানায়ও এলপিজি ব্যবহার করা হচ্ছে। এলপিজির বাজারের ৯৯ শতাংশই বেসরকারি খাতের দখলে।

back to top