alt

অপরাধ ও দুর্নীতি

স্ত্রী-শাশুড়িসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে ‘জল্লাদ’ শাহজাহানের প্রতারণার মামলা

আদালত বার্তা পরিবেশক : রোববার, ৩১ মার্চ ২০২৪

প্রতারণার অভিযোগে স্ত্রী-শাশুড়িসহ ৬জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন ৩২ বছর জেল খেটে মুক্তি পাওয়া শাহজাহান ভূঁইয়া, যিনি কারাগারে বহু মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করে ‘জল্লাদ’ পরিচিতি পেয়েছেন। গতকাল রোববার ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য বিচারিক হাকিম এ কে এম রকিবুল হাসানের আদালতে তিনি মামলা করেন বলে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আনোয়ারুল কবীর বাবুল জানান।

বিচারক তার জবানবন্দি গ্রহণ করে অভিযোগটি তদন্তে আগামী ২৭ জুন প্রতিবেদন দিতে পুলিশ ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) নির্দেশ দিয়েছেন। মামলার আসামিরা হলেন-শাহজাহানের স্ত্রী সাথী আক্তার ফাতেমা, শাশুড়ি শাহিনুর বেগম, শ্বশুরবাড়ি পক্ষের স্বজন দীন ইসলাম, আজিদা বেগম, রাসেল ও বাবলু।

আদালতপাড়ায় শাহজাহান সাংবাদিকদের বলেন,‘বড় আশা করে সংসার পেতেছিলাম। কিন্তু স্ত্রী ও তার স্বজনরা যোগসাজশে আমাকে প্রতারণার ফাঁদে ফেলে। বিয়ের দেড় মাস পর আমার কাছ থেকে নেওয়া ১০ লাখ টাকা ও স্বর্ণালংকার নিয়ে পালিয়ে যায়। এর কয়েক দিন পর আদালতে গিয়ে আমার স্ত্রী সাথী উল্টো আমার নামে মিথ্যা অভিযোগে যৌতুকের মামলা করে। ‘আমি আইনজীবীর পরামর্শে আমার স্ত্রীসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছি। আদালতে আমি ন্যায়বিচার পাব বলে আশা করি।’

আদালতে রোববার শাহজাহানের সঙ্গে তার আইনজীবী মো. ওসমান গনিও ছিলেন। বঙ্গবন্ধুর খুনি, মানবতাবিরোধী অপরাধীসসহ ২৬ জনের ফাঁসির দণ্ড কার্যকর করে আলোচনায় আসা শাহজাহান ভূঁইয়া ৩২ বছর পর গত বছরের জুনে কারামুক্ত হন।

নরসিংদীর পলাশ থানার ইছাখালী গ্রামের এই ব্যক্তি ডাকাতি ও হত্যার মামলায় ১৯৯১ সালের ১৭ মে কারাগারে যান। তার সাজা হয়েছিল ৪২ বছর। পরে জল্লাদের ভূমিকা পালনসহ নানা কারণে তার সাজা রেয়াত হয় ১০ বছর ৫ মাস। সব মিলিয়ে ৩২ বছর পর কারাবাসের পর গত বছরের ১৮ জুন যখন মুক্তি পান, তখন কারাফটকে তার স্বজনদের কেউ ছিল না। ৪০ বছর বয়সেও অবিবাহিত অবস্থায় তিনি কারাগারে গিয়েছিলেন। এরপর ৭৩ বছর বয়সে মুক্তি পাওয়ার কিছুদিন পর বিয়ে করেন।

ছবি

আড়াইহাজারে কিশোরী গণধর্ষণ : অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার ৪

ছবি

পাহাড়কেন্দ্রিক অপহরণ চক্রের প্রধান মোর্শেদ অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার

২২ বছর পর স্ত্রী হত্যায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত স্বামী গ্রেপ্তার

আড়াইহাজারে কিশোরীকে তুলে নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ

৭ বছর পর শিশু হত্যা রহস্য উদ্ঘাটন

ব্যবসার আড়ালে অনলাইনে প্রতারণার অভিযোগ

ছবি

ঢাকা বাড্ডায় এক হত্যা মামলায় তিন আসামির যাবজ্জীবন

ছবি

সাগর-রুনি হত্যা: মামলার প্রতিবেদন জমা আবারও পেছালো

ছবি

আদালতের সময় নষ্ট করায় সেলিম প্রধানকে জরিমানা

খুলনা ও মৌলভীবাজারে চার জনের মৃত্যুদণ্ড

ছবি

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে দেড় বছরে ৮০ জন হত্যা

ছবি

উড়োজাহাজ লিজে অনিয়ম: বিমানের সাবেক এমডিসহ ১৬ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র

চাকরি দেওয়ার কথা বলে অর্থ আত্মসাৎ, বরখাস্ত অফিস সহায়কের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

ছবি

সার আত্মসাৎ মামলায় সাবেক এমপি পোটনসহ ৫ জন কারাগারে

ছবি

বিমানবন্দর ও টঙ্গী থেকে ৭ ছিনতাইকারী গ্রেপ্তার

ছবি

ইন্স্যুরেন্স চাকরির আড়ালে জঙ্গি সংগঠনের রিক্রুটার : ডিবি

ছবি

স্বামী-স্ত্রীর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

গোবিন্দগঞ্জে নির্যাতন করে গৃহবধূর মাথার চুল কেটে দিয়েছে প্রতিপক্ষ, ৩জন গ্রেফতার

লাখে ১১ হাজার লাভ দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে ৬৩ লাখ টাকা আত্মসাৎ

ছবি

ধর্ম অবমাননায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে জবি শিক্ষার্থীর পাঁচ বছরের কারাদণ্ড

ভারতে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে কিডনি হাতিয়ে নিতো চক্রটি

ছবি

আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের সক্রিয় সদস্য গ্রেপ্তার

ছবি

ডিজিটাল ডিভাইসে জানানো হতো উত্তর,১০মিনিটে পরীক্ষা শেষ

সংবাদের সার্কুলেশন ম্যানেজারকে প্রাণনাশের হুমকি

ছবি

নায়ক সোহেল চৌধুরী হত্যা: আজিজ মোহাম্মদ ভাই ও দুইজনের যাবজ্জীবন, খালাস ৬

মাদকের তথ্য দেয়ায় হাতের রগ কর্তন, আসামীর পরিবর্তে ভুক্তভোগীকেই আটক, পরে ৫০ হাজার টাকায় মুক্তি

সাবেক এসপি সুব্রত কুমার হালদারসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে দুদকের চার্জশিট

ছবি

‘টর্চার সেলে’ নিজ হাতে অপারেশনের নামে পৈশাচিক আনন্দ পেতো মিল্টন : ডিবি প্রধান

ছবি

এবার মানবপাচার মামলায় মিল্টন সমাদ্দারের ৪ দিনের রিমান্ড

ছবি

ডিবি কার্যালয়ে মিল্টন সমাদ্দারের স্ত্রী, চলছে জিজ্ঞাসাবাদ

রাবির ক্যান্টিন পরিচালকের বিরুদ্ধে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ

ছবি

মিল্টন সমাদ্দার ৩ দিনের রিমান্ডে

ছবি

তিন দিন রিমান্ডে মিল্টন সমাদ্দার

ছবি

আলোচিত মিল্টন সমাদ্দারকে হেফাজতে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করছে ডিবি

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় : ছাত্রলীগ নেতাকে চাঁদা না দেয়ায় ব্যবসায়ীকে মারধরের অভিযোগ

ছবি

নিঃসঙ্গ নারীদের টার্গেট, আমেরিকায় নেওয়ার স্বপ্ন দেখিয়ে প্রতারণা

tab

অপরাধ ও দুর্নীতি

স্ত্রী-শাশুড়িসহ ৬ জনের বিরুদ্ধে ‘জল্লাদ’ শাহজাহানের প্রতারণার মামলা

আদালত বার্তা পরিবেশক

রোববার, ৩১ মার্চ ২০২৪

প্রতারণার অভিযোগে স্ত্রী-শাশুড়িসহ ৬জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছেন ৩২ বছর জেল খেটে মুক্তি পাওয়া শাহজাহান ভূঁইয়া, যিনি কারাগারে বহু মৃত্যুদণ্ড কার্যকর করে ‘জল্লাদ’ পরিচিতি পেয়েছেন। গতকাল রোববার ঢাকার অতিরিক্ত মুখ্য বিচারিক হাকিম এ কে এম রকিবুল হাসানের আদালতে তিনি মামলা করেন বলে রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী আনোয়ারুল কবীর বাবুল জানান।

বিচারক তার জবানবন্দি গ্রহণ করে অভিযোগটি তদন্তে আগামী ২৭ জুন প্রতিবেদন দিতে পুলিশ ব্যুরো অফ ইনভেস্টিগেশনকে (পিবিআই) নির্দেশ দিয়েছেন। মামলার আসামিরা হলেন-শাহজাহানের স্ত্রী সাথী আক্তার ফাতেমা, শাশুড়ি শাহিনুর বেগম, শ্বশুরবাড়ি পক্ষের স্বজন দীন ইসলাম, আজিদা বেগম, রাসেল ও বাবলু।

আদালতপাড়ায় শাহজাহান সাংবাদিকদের বলেন,‘বড় আশা করে সংসার পেতেছিলাম। কিন্তু স্ত্রী ও তার স্বজনরা যোগসাজশে আমাকে প্রতারণার ফাঁদে ফেলে। বিয়ের দেড় মাস পর আমার কাছ থেকে নেওয়া ১০ লাখ টাকা ও স্বর্ণালংকার নিয়ে পালিয়ে যায়। এর কয়েক দিন পর আদালতে গিয়ে আমার স্ত্রী সাথী উল্টো আমার নামে মিথ্যা অভিযোগে যৌতুকের মামলা করে। ‘আমি আইনজীবীর পরামর্শে আমার স্ত্রীসহ ছয়জনের বিরুদ্ধে মামলা করেছি। আদালতে আমি ন্যায়বিচার পাব বলে আশা করি।’

আদালতে রোববার শাহজাহানের সঙ্গে তার আইনজীবী মো. ওসমান গনিও ছিলেন। বঙ্গবন্ধুর খুনি, মানবতাবিরোধী অপরাধীসসহ ২৬ জনের ফাঁসির দণ্ড কার্যকর করে আলোচনায় আসা শাহজাহান ভূঁইয়া ৩২ বছর পর গত বছরের জুনে কারামুক্ত হন।

নরসিংদীর পলাশ থানার ইছাখালী গ্রামের এই ব্যক্তি ডাকাতি ও হত্যার মামলায় ১৯৯১ সালের ১৭ মে কারাগারে যান। তার সাজা হয়েছিল ৪২ বছর। পরে জল্লাদের ভূমিকা পালনসহ নানা কারণে তার সাজা রেয়াত হয় ১০ বছর ৫ মাস। সব মিলিয়ে ৩২ বছর পর কারাবাসের পর গত বছরের ১৮ জুন যখন মুক্তি পান, তখন কারাফটকে তার স্বজনদের কেউ ছিল না। ৪০ বছর বয়সেও অবিবাহিত অবস্থায় তিনি কারাগারে গিয়েছিলেন। এরপর ৭৩ বছর বয়সে মুক্তি পাওয়ার কিছুদিন পর বিয়ে করেন।

back to top