alt

অপরাধ ও দুর্নীতি

কাউন্সিলর সোহেল হত্যা: এজাহারভুক্ত আসামি সুমন গ্রেপ্তার

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক: : বুধবার, ২৪ নভেম্বর ২০২১

কুমিল্লায় কাউন্সিলর সৈয়দ মো. সোহেলসহ দুজনকে গুলি করে হত্যা মামলায় এজাহারভুক্ত এক আসামিকে গ্রেপ্তারের কথা জানিয়েছে পুলিশ।

সুজানগর এলাকায় কাউন্সিলর সোহেলের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে বুধবার দুপুর ১২টার দিকে সাংবাদিকদের এ কথা জানান পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ।

তিনি বলেন, গ্রেপ্তার মো. সুমনের বাড়ি কাউন্সিলরের এলাকায়।

কুমিল্লা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) সোহান সরকার বলেন, কুমিল্লা শহরের সুজানগর এলাকার কানু মিয়ার ছেলে সুমন এজাহারে উল্লিখিত ৪ নম্বর আসামি। সকালে কুচাইতলীতে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এলাকায় ঘোরাফেরা করছিলেন সুমন। সেখান থেকে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।

কুমিল্লা কোতোয়ালি মডেল থানায় মঙ্গলবার রাত সোয়া ১২টার দিকে মামলাটি করেন নিহত সোহেলের ছোট ভাই সৈয়দ মো. রুমন।

কুমিল্লা কোতোয়ালি মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) কমল কৃষ্ণ ধর জানান, ‘রাত সোয়া ১২টার দিকে মামলাটি রেকর্ড করা হয়। মামলায় শাহ আলমকে প্রধান আসামি করে এজহারে ১১ জনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাতনামা আরও ১০ জনকে আসামি করে মামলাটি দায়ের করা হয়।

মামলার এজাহারে কী আছে, সে বিষয়ে বিস্তারিত জানায়নি পুলিশ।

তবে বাদী সৈয়দ মো. রুমন বলেন, “মাদকবিরোধী অবস্থান নেওয়ায় এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীরা পরিকল্পিতভাবে আমার ভাইকে হত্যা করেছে। এজাহারে তাদের নাম উল্লেখ করা হয়েছে।”

এজাহারে যে ১১ জনের নাম এসেছে, তাদের প্রথমেই আছেন কুমিল্লা শহরের সুজানগর এলাকার জানু মিয়ার ছেলে শাহ আলম (২৮), যার বিরুদ্ধে মাদকের কারবারসহ বিভিন্ন অভিযোগে মামলা রয়েছে থানায়।

তিনি দাবি করেন, গুলিবিদ্ধ হরিপদ সাহাকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি শাহ আলমকে ‘চিনতে পারার কথা’ বলে গেছেন।

নাম উল্লেখ করা বাকি আসামিরা হলেন: স্থানীয় রফিক মিয়ার ছেলে মো. সাব্বির হোসেন (২৮), কানু মিয়ার ছেলে সুমন (৩২), নূর আলীর ছেলে জিসান মিয়া, কানাই মিয়ার ছেলে রনি (৩২), নবগ্রাম এলাকার সোহেল ওরফে জেল সোহেল (২৮), সায়মন (৩০), সংরাইস এলাকার সাজন (৩২), মাসুম (৩৫) তেলিকোনা এলাকার আশিকুর রহমান রকি (৩২) ও সুজানগর বৌবাজার এলাকার আলম (৩৫)।

নিজ কার্যালয়ে গত সোমবার (২২ নভেম্বর) বিকেল ৪টার দিকে কাউন্সিলর সোহেলসহ গুলিবিদ্ধ হন অন্তত ৬ জন। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোহেল ও তার সহযোগী হরিপদ দাসের মৃত্যু হয়। মঙ্গলবার বাদ জোহর পাথরিয়াপাড়া কবরস্থানে কাউন্সিলর সোহেলকে দাফন করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীর বরাতে কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনওয়ারুল আজিম জানান, বিকেল ৪টার দিকে কাউন্সিলর সোহেল সুজানগরে তার কার্যালয়ে বসে ছিলেন। এ সময় মুখোশ পরা ১৫ থেকে ২০ জন তাকে গুলি করে। এতে কাউন্সিলর সোহেল লুটিয়ে পড়েন। এ সময় গুলিবিদ্ধ হন হরিপদ সাহা, পাথুরীয়াপাড়ার মো. রিজু ও মো. জুয়েল এবং সুজানগর এলাকার সোহেল চৌধুরী ও মাজেদুল।

স্থানীয়রা এগিয়ে এলে হামলাকারীরা গুলি ও ককটেল বিস্ফোরণ করতে করতে চলে যায়।

কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগের সদস্য ও ১৭ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি সোহেল ২০১২ ও ২০১৭ সালে কাউন্সিলর নির্বাচিত হন। দ্বিতীয় মেয়াদে তিনি প্যানেল মেয়র ছিলেন।

ছবি

নীলফামারীতে জেএমবির সামরিক কমান্ডারসহ ৫ জঙ্গি গ্রেপ্তার

হাকিমপুর ইউপি নির্বাচন নিয়ে সংঘর্ষে আহত ২০

২৯ ব্যক্তি ও ১৪ প্রতিষ্ঠানের নামের তালিকা হাইকোর্টে জমা দিচ্ছে দুদক

সিদ্ধিরগঞ্জে মাদকসহ ধৃত ৩

সিংগাইরে শ্বাসরোধ করে যুবককে হত্যা

মুন্সীগঞ্জে সন্ত্রাসী হামলায় সাংবাদিক আহত

গাড়ি কেনার টাকা চুরির সময় ধরা পড়ে প্রবাসীকে খুন করে চাচাত ভাই

দিনাজপুরে ধর্ষণের শিকার ৮ বছরের শিশু লাইফ সাপোর্টে, ধর্ষক আটক

ছবি

রামপুরায় শিক্ষার্থীর মৃত্যু: সুপারভাইজার-হেলপারের স্বীকারোক্তি

ছবি

শত্রুতার বিষে মরল খামারের আড়াইশ’ হাঁস

মির্জাগঞ্জে চোরের চেতনানাশকে ৪ শিশুসহ ৭ জন হাসপাতালে

টঙ্গীতে শিশুসহ অপহরণকারী গ্রেপ্তার

মঠবাড়িয়ায় পরীক্ষায় প্রক্সি আটক ৬ : মামলায় অধ্যক্ষ আসামি

দুই কোটি হাতিয়ে লাপাত্তা হায় হায় কোম্পানি-জুয়েলারি

ছবি

ঢাবির সেই প্রভোস্টকে সহযোগী অধ্যাপক পদে পুনর্বহালের নির্দেশ

জগন্নাথপুরে আধিপত্য নিয়ে গোলাগুলি : আহত ৫০

বরিশালে স্বামী হত্যা স্ত্রী ও প্রেমিকের যাবজ্জীবন

ছবি

জাহাঙ্গীর আলমের বিরুদ্ধে এবার নওগাঁয় মামলা

ছবি

কর্মকর্তাদের ‘কাল্পনিক’ বিদেশ ভ্রমণ বন্ধে হাই কোর্টের তিন নির্দেশনা

ছবি

আমিনবাজারে ৬ শিক্ষার্থী হত্যা : ১৩ জনের মৃত্যুদণ্ড

ছবি

উপকূলীয় অঞ্চলে জলদস্যুদের হানা, জেলেদের জিম্মি করে মুক্তিপণ আদায়

ছবি

রাজারবাগ পীরের সম্পদের অনুসন্ধানে ব্যাংকসহ ১২২ প্রতিষ্ঠানে দুদকের চিঠি

ছবি

মোরেলগঞ্জে ৩০৯ স্কুলে বায়োমেট্রিক হাজিরা ডিভাইস ক্রয়ে হরিলুট!

ছবি

সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি বিনষ্টের মামলা ৯০ দিনে নিষ্পত্তির নির্দেশ

ছবি

৩ কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া কর্মকর্তাদের বিদেশ ভ্রমণ নয়

ছবি

৩৪২ ধারায় ৮ আসামির বক্তব্য গ্রহণ: পরবর্তি ধার্য্য দিন ৬ ডিসেম্বর

ছবি

কাউন্সিলর সোহেল হত্যা: ব্যবহৃত অস্ত্র উদ্ধার

ছবি

কয়লাখনি দুর্নীতি: খালেদার বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন ২০ জানুয়ারি

হাসপাতালে একমাসে ৫ বার চুরি!

কুড়িগ্রামের ভুয়া সিআইডি আটক

ছবি

রামপুরায় বাসে আগুন ও ভাঙচুরের ঘটনায় মামলা, আসামি ৮০০

ছবি

বিমানে অসন্তোষ : চাকরিচ্যুত পাইলট অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি

ছবি

সব আসামির নাম না আসায় আপত্তি পরীমনির

ছবি

মাইনুদ্দিনের মৃত্যুতে মায়ের মামলা, বাসে আগুনের আরেক মামলা

ছবি

অবৈধ সম্পদ অর্জন: পাপিয়া দম্পতির বিচার শুরু

ছবি

কেরোসিন-ডিজেলের দাম নির্ধারণে হাইকোর্টের রুল

tab

অপরাধ ও দুর্নীতি

কাউন্সিলর সোহেল হত্যা: এজাহারভুক্ত আসামি সুমন গ্রেপ্তার

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক:

বুধবার, ২৪ নভেম্বর ২০২১

কুমিল্লায় কাউন্সিলর সৈয়দ মো. সোহেলসহ দুজনকে গুলি করে হত্যা মামলায় এজাহারভুক্ত এক আসামিকে গ্রেপ্তারের কথা জানিয়েছে পুলিশ।

সুজানগর এলাকায় কাউন্সিলর সোহেলের পরিবারের সঙ্গে দেখা করতে গিয়ে বুধবার দুপুর ১২টার দিকে সাংবাদিকদের এ কথা জানান পুলিশ সুপার ফারুক আহমেদ।

তিনি বলেন, গ্রেপ্তার মো. সুমনের বাড়ি কাউন্সিলরের এলাকায়।

কুমিল্লা অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) সোহান সরকার বলেন, কুমিল্লা শহরের সুজানগর এলাকার কানু মিয়ার ছেলে সুমন এজাহারে উল্লিখিত ৪ নম্বর আসামি। সকালে কুচাইতলীতে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল এলাকায় ঘোরাফেরা করছিলেন সুমন। সেখান থেকে পুলিশ তাকে গ্রেপ্তার করে।

কুমিল্লা কোতোয়ালি মডেল থানায় মঙ্গলবার রাত সোয়া ১২টার দিকে মামলাটি করেন নিহত সোহেলের ছোট ভাই সৈয়দ মো. রুমন।

কুমিল্লা কোতোয়ালি মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) কমল কৃষ্ণ ধর জানান, ‘রাত সোয়া ১২টার দিকে মামলাটি রেকর্ড করা হয়। মামলায় শাহ আলমকে প্রধান আসামি করে এজহারে ১১ জনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাতনামা আরও ১০ জনকে আসামি করে মামলাটি দায়ের করা হয়।

মামলার এজাহারে কী আছে, সে বিষয়ে বিস্তারিত জানায়নি পুলিশ।

তবে বাদী সৈয়দ মো. রুমন বলেন, “মাদকবিরোধী অবস্থান নেওয়ায় এলাকার চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ীরা পরিকল্পিতভাবে আমার ভাইকে হত্যা করেছে। এজাহারে তাদের নাম উল্লেখ করা হয়েছে।”

এজাহারে যে ১১ জনের নাম এসেছে, তাদের প্রথমেই আছেন কুমিল্লা শহরের সুজানগর এলাকার জানু মিয়ার ছেলে শাহ আলম (২৮), যার বিরুদ্ধে মাদকের কারবারসহ বিভিন্ন অভিযোগে মামলা রয়েছে থানায়।

তিনি দাবি করেন, গুলিবিদ্ধ হরিপদ সাহাকে হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি শাহ আলমকে ‘চিনতে পারার কথা’ বলে গেছেন।

নাম উল্লেখ করা বাকি আসামিরা হলেন: স্থানীয় রফিক মিয়ার ছেলে মো. সাব্বির হোসেন (২৮), কানু মিয়ার ছেলে সুমন (৩২), নূর আলীর ছেলে জিসান মিয়া, কানাই মিয়ার ছেলে রনি (৩২), নবগ্রাম এলাকার সোহেল ওরফে জেল সোহেল (২৮), সায়মন (৩০), সংরাইস এলাকার সাজন (৩২), মাসুম (৩৫) তেলিকোনা এলাকার আশিকুর রহমান রকি (৩২) ও সুজানগর বৌবাজার এলাকার আলম (৩৫)।

নিজ কার্যালয়ে গত সোমবার (২২ নভেম্বর) বিকেল ৪টার দিকে কাউন্সিলর সোহেলসহ গুলিবিদ্ধ হন অন্তত ৬ জন। হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোহেল ও তার সহযোগী হরিপদ দাসের মৃত্যু হয়। মঙ্গলবার বাদ জোহর পাথরিয়াপাড়া কবরস্থানে কাউন্সিলর সোহেলকে দাফন করা হয়।

প্রত্যক্ষদর্শীর বরাতে কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আনওয়ারুল আজিম জানান, বিকেল ৪টার দিকে কাউন্সিলর সোহেল সুজানগরে তার কার্যালয়ে বসে ছিলেন। এ সময় মুখোশ পরা ১৫ থেকে ২০ জন তাকে গুলি করে। এতে কাউন্সিলর সোহেল লুটিয়ে পড়েন। এ সময় গুলিবিদ্ধ হন হরিপদ সাহা, পাথুরীয়াপাড়ার মো. রিজু ও মো. জুয়েল এবং সুজানগর এলাকার সোহেল চৌধুরী ও মাজেদুল।

স্থানীয়রা এগিয়ে এলে হামলাকারীরা গুলি ও ককটেল বিস্ফোরণ করতে করতে চলে যায়।

কুমিল্লা মহানগর আওয়ামী লীগের সদস্য ও ১৭ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি সোহেল ২০১২ ও ২০১৭ সালে কাউন্সিলর নির্বাচিত হন। দ্বিতীয় মেয়াদে তিনি প্যানেল মেয়র ছিলেন।

back to top