alt

বিনোদন

পপগুরু আজম খান চলে যাওয়ার ১১ বছর

বিনোদন বার্তা পরিবেশক : রোববার, ০৫ জুন ২০২২

পপগুরু আজম খান। আজ এ প্রিয় মানুষটির হারিয়ে যাওয়ার দিন। দেখতে দেখতেই ১১ বছর কেটে গেল তার প্রস্থানের। ২০১১ সালের ৫ জুন পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে না ফেরার দেশে পাড়ি দিয়েছিলেন আজম খান। তারপর থেকে ৫ জুন মানে দেশের সংগীতপিপাসু মানুষের কাছে শোকের দিন।

এই দিনটিতে নানাভাবে তাকে স্বরণ করে থাকেন গানপাগল মানুষেরা।

আজম খান দেশীয় ফোক ফিউশনের সাথে পাশ্চাত্যের যন্ত্রপাতির ব্যবহার করে বাংলা গানের এক নতুন ধারা তৈরি করেছিলেন। অনেকে তাকে বাংলাদেশের বব মার্লে বা বব ডেলান বলেও সম্মানিত করে থাকেন।

১৯৫০ সালে ২৮ ফেব্রুয়ারি জন্মগ্রহণ করেন আজম খান। তার পুরো নাম মাহবুবুল হক খান। বাবার নাম আফতাব উদ্দিন আহমেদ ও মা জোবেদা খাতুন। তার শৈশবের পাঁচ বছর কাটে আজিমপুর কলোনিতে। তারা ৪ ভাই ও এক বোন ছিলেন।

১৯৫৫ সালে তিনি প্রথমে আজিমপুরের ঢাকেশ্বরী স্কুলে ভর্তি হন। ১৯৫৬ সালে তার বাবা কমলাপুরে বাড়ি বানালে সেখানে চলে যান পরিবারসহ। কমলাপুরের প্রভেনশিয়াল স্কুলে প্রাইমারিতে এসে ভর্তি হন। তারপর ১৯৬৫ সালে সিদ্ধেশ্বরী হাইস্কুলে বাণিজ্য বিভাগে ভর্তি হন। এই স্কুল থেকে ১৯৬৮ সালে এসএসসি পাস করেন।

১৯৭০ সালে টিঅ্যান্ডটি কলেজ থেকে বাণিজ্য বিভাগে দ্বিতীয় বিভাগে উত্তীর্ণ হন।

১৯৭১ সালের মহান স্বাধীনতা সংগ্রামের একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে অংশ নিয়েছিলেন তিনি। ব্রিগেডিয়ার খালেদ মোশাররফের নেতৃত্বে ২ নম্বর সেক্টরে পাকিস্তানি সৈন্যদের বিরুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন।

পপগুরু আজম খান ১৯৭০ সালে ‘উচ্চারণ’ নামে একটি ব্যান্ডদল প্রতিষ্ঠা করেন। তিনি ১৯৭২ সালে প্রথম স্টেজ প্রোগ্রাম করেন নটরডম কলেজে এবং একই সালে বাংলাদেশ টেলিভিশনে প্রথম টেলিভিশন অনুষ্ঠান করেন। তবে ১৯৭৩ সালের ১ এপ্রিল ওয়াপদা মিলনায়তনের অনুষ্ঠানই তাকে খ্যাতিমান করে তোলেন।

আজম খান একাধারে ছিলেন সংগীতশিল্পী, গিটারিস্ট ও গীতিকার। ১৯৮২ সালে প্রকাশ হয় তার প্রথম একক অ্যালবাম ‘এক জনম’। তিনি একে একে ১৬৮টি একক গান ৩০টি মিক্সস গানসহ ১৪টি অ্যালবামের মাধ্যমে শ্রোতাদের অসংখ্যা জনপ্রিয় গান উপহার দেন। আজম খানের জনপ্রিয় গানের মধ্যে রয়েছে- ‘ওরে সালেকা ওরে মালেকা’, ‘আলাল দুলাল’, ‘অনামিকা চুপ’, ‘সারা রাত’ ইত্যাদি।

শিল্পী চরিত্রের পাশাপাশি আজম খান স্বনামধন্য ছিলেন একজন খেলোয়াড় হিসেবেও। নিজে সাঁতার কাটতেন এবং নতুন সাঁতারুদের মোশারফ হোসেন জাতীয় সুইমিং পুলে সপ্তাহে ৬ দিন সাঁতার শেখাতেন। ক্রিকেট ও ফুটবল খেলোয়াড় হিসেবেও ছিলেন পারদর্শী। এইসব কারণে দেশের ক্রীড়াঙ্গনেও ছিল তার দারুণ সমাদর। তিনি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেও জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন।

পারিবারিক জীবনে তিনি দুই কন্যা ইমা এবং রিমা ও পুত্র হৃদয়ের জনক।

ছবি

আলিয়া এখন আমার জীবনে ডাল-ভাত : রণবীর

ছবি

পদ্মা সেতু নিয়ে যত গান

ছবি

আবারও সালমানের সঙ্গে পূজা

ছবি

এবারের ঈদ থাইল্যান্ডে

ছবি

প্রথম প্রেম ও ব্রেকআপ কবে, জানালেন পায়েল

ছবি

কলকাতা থেকে সম্মান পেলেন নৈনামিকের ঋভু আনন

ছবি

ধর্ম নিয়ে মন্তব্য করে তোপের মুখে সাই পল্লবী

ছবি

শর্টফিল্ম চক্রাকার তৈরি হয়েছে স্মার্টফোনে

ছবি

মৌসুমির সন্তান ফারদিনঃ মা বলেছে, দেখ বাবা আমি তো তখন রাগের মাথায় বলেছি

ছবি

‘মৌসুমী বলেছেন জায়েদ ছোট ভাইয়ের মতো’

ছবি

বিয়ের পরই বিপাকে নয়নতারা

ছবি

বেঁচে গেল ব্রিটনির তৃতীয় বিয়ের আসর

ছবি

রাইফেল নিয়ে সালমান খানকে হত্যার চেষ্টা

ছবি

বৃষ্টির কারণে স্থগিত কোক স্টুডিও লাইভ কনসার্ট

ছবি

একসঙ্গে তিন তারকার ছবি ভাইরাল!

ছবি

ট্রেলারে রহস্য ও উত্তেজনা ছড়িয়ে আলোচনায় ‘হাওয়া’

ছবি

চটের বস্তা পরে হাসির খোরাক উরফি!

ছবি

জায়েদ-নিপুণ দ্বন্দ্ব : ফের পেছালো শুনানি

ছবি

তরুণ গায়কের সঙ্গে গাইলেন-নাচলেন কর্নিয়া

ছবি

শাহরুখ-নয়নতারার সেই সিনেমার নাম জানা গেল

ছবি

ব্যক্তিগত হাজিরা থেকে অব্যাহতি পেলেন পরীমনি

ছবি

কেকের মৃত্যু ঘিরে রহস্য, অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা

ছবি

শাহরুখের ছেলের বিরুদ্ধে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তাকে বদলি

ছবি

৫০ লাখ রুপি জমা দিয়ে বিদেশ যেতে পারবেন জ্যাকুলিন

ছবি

মানসিক অবসাদ ঝেড়ে ফেলতে শিখেছি : ক্যাটরিনা

ছবি

কে এই ‘সানভিকা’

ছবি

কানে স্বর্ণপাম জিতলো সুইডেনের ‘ট্রায়াঙ্গেল অব স্যাডনেস’

ছবি

মাদক মামলায় খালাস পেলেন শাহরুখপুত্র আরিয়ান

ছবি

দেলোয়ার জাহান ঝন্টুর সিনেমায় নিপুণ ও ফেরদৌস

ছবি

নগরবাউল ও মাইলস বাংলালিংকের বিরুদ্ধে মামলা তুলে নিল

ছবি

পল্লবীর পর এবার মডেল বিদিশার ঝুলন্ত মরদেহ উদ্ধার

ছবি

ফ্রান্সে মুক্তি পাচ্ছে সিয়াম-পূজা অভিনীত ‘শান’

ছবি

মৃত্যুর খবর গুজব: আইনি পদক্ষেপ নিচ্ছেন হানিফ সংকেত

ছবি

জায়েদ-নিপুণের আবেদন শুনানি ফের পেছালো

ছবি

ট্রেলার দেখে পুরো সিনেমা নিয়ে মন্তব্য করা ঠিক না: শ্যাম বেনেগাল

ছবি

বাংলাদেশীদের হতাশ করল ‘মুজিব’ ট্রেলার, বইছে তীব্র ক্ষোভ ও সমালোচনার ঝড়

tab

বিনোদন

পপগুরু আজম খান চলে যাওয়ার ১১ বছর

বিনোদন বার্তা পরিবেশক

রোববার, ০৫ জুন ২০২২

পপগুরু আজম খান। আজ এ প্রিয় মানুষটির হারিয়ে যাওয়ার দিন। দেখতে দেখতেই ১১ বছর কেটে গেল তার প্রস্থানের। ২০১১ সালের ৫ জুন পৃথিবীর মায়া ত্যাগ করে না ফেরার দেশে পাড়ি দিয়েছিলেন আজম খান। তারপর থেকে ৫ জুন মানে দেশের সংগীতপিপাসু মানুষের কাছে শোকের দিন।

এই দিনটিতে নানাভাবে তাকে স্বরণ করে থাকেন গানপাগল মানুষেরা।

আজম খান দেশীয় ফোক ফিউশনের সাথে পাশ্চাত্যের যন্ত্রপাতির ব্যবহার করে বাংলা গানের এক নতুন ধারা তৈরি করেছিলেন। অনেকে তাকে বাংলাদেশের বব মার্লে বা বব ডেলান বলেও সম্মানিত করে থাকেন।

১৯৫০ সালে ২৮ ফেব্রুয়ারি জন্মগ্রহণ করেন আজম খান। তার পুরো নাম মাহবুবুল হক খান। বাবার নাম আফতাব উদ্দিন আহমেদ ও মা জোবেদা খাতুন। তার শৈশবের পাঁচ বছর কাটে আজিমপুর কলোনিতে। তারা ৪ ভাই ও এক বোন ছিলেন।

১৯৫৫ সালে তিনি প্রথমে আজিমপুরের ঢাকেশ্বরী স্কুলে ভর্তি হন। ১৯৫৬ সালে তার বাবা কমলাপুরে বাড়ি বানালে সেখানে চলে যান পরিবারসহ। কমলাপুরের প্রভেনশিয়াল স্কুলে প্রাইমারিতে এসে ভর্তি হন। তারপর ১৯৬৫ সালে সিদ্ধেশ্বরী হাইস্কুলে বাণিজ্য বিভাগে ভর্তি হন। এই স্কুল থেকে ১৯৬৮ সালে এসএসসি পাস করেন।

১৯৭০ সালে টিঅ্যান্ডটি কলেজ থেকে বাণিজ্য বিভাগে দ্বিতীয় বিভাগে উত্তীর্ণ হন।

১৯৭১ সালের মহান স্বাধীনতা সংগ্রামের একজন বীর মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে অংশ নিয়েছিলেন তিনি। ব্রিগেডিয়ার খালেদ মোশাররফের নেতৃত্বে ২ নম্বর সেক্টরে পাকিস্তানি সৈন্যদের বিরুদ্ধে মুক্তিযুদ্ধে সক্রিয়ভাবে অংশগ্রহণ করেন।

পপগুরু আজম খান ১৯৭০ সালে ‘উচ্চারণ’ নামে একটি ব্যান্ডদল প্রতিষ্ঠা করেন। তিনি ১৯৭২ সালে প্রথম স্টেজ প্রোগ্রাম করেন নটরডম কলেজে এবং একই সালে বাংলাদেশ টেলিভিশনে প্রথম টেলিভিশন অনুষ্ঠান করেন। তবে ১৯৭৩ সালের ১ এপ্রিল ওয়াপদা মিলনায়তনের অনুষ্ঠানই তাকে খ্যাতিমান করে তোলেন।

আজম খান একাধারে ছিলেন সংগীতশিল্পী, গিটারিস্ট ও গীতিকার। ১৯৮২ সালে প্রকাশ হয় তার প্রথম একক অ্যালবাম ‘এক জনম’। তিনি একে একে ১৬৮টি একক গান ৩০টি মিক্সস গানসহ ১৪টি অ্যালবামের মাধ্যমে শ্রোতাদের অসংখ্যা জনপ্রিয় গান উপহার দেন। আজম খানের জনপ্রিয় গানের মধ্যে রয়েছে- ‘ওরে সালেকা ওরে মালেকা’, ‘আলাল দুলাল’, ‘অনামিকা চুপ’, ‘সারা রাত’ ইত্যাদি।

শিল্পী চরিত্রের পাশাপাশি আজম খান স্বনামধন্য ছিলেন একজন খেলোয়াড় হিসেবেও। নিজে সাঁতার কাটতেন এবং নতুন সাঁতারুদের মোশারফ হোসেন জাতীয় সুইমিং পুলে সপ্তাহে ৬ দিন সাঁতার শেখাতেন। ক্রিকেট ও ফুটবল খেলোয়াড় হিসেবেও ছিলেন পারদর্শী। এইসব কারণে দেশের ক্রীড়াঙ্গনেও ছিল তার দারুণ সমাদর। তিনি চলচ্চিত্রে অভিনয় করেও জনপ্রিয়তা পেয়েছিলেন।

পারিবারিক জীবনে তিনি দুই কন্যা ইমা এবং রিমা ও পুত্র হৃদয়ের জনক।

back to top