alt

আন্তর্জাতিক

প্রতিরক্ষা ব্যয় বাড়াচ্ছে রাশিয়া

৪ বছরে খরচ করবে ৩৪ লাখ কোটি রুবল * পরমাণু হামলা চালালে কী হবে ইউক্রেনে

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : রোববার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২

দীর্ঘমেয়াদি যুদ্ধ পরিকল্পনার পথে এগোচ্ছে রাশিয়া। এ লক্ষ্য বাস্তবায়নে ২০২২-২৫ সাল পর্যন্ত ৪ বছরে খরচ করবে ৩৪ লাখ কোটি রুবল (৬০ হাজার কোটি ডলার; এক রুবল সমান ৫৬.২৫ ডলার) খরচের পরিকল্পনা করছে মস্কো।

যা দেশটির প্রচলিত বাজেটের থেকে অনেক বেশি। প্রতিরক্ষা, নিরাপত্তা ও অভ্যন্তরীণ আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় ব্যয় হবে এই অর্থ। রাশিয়ার অর্থ মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তার বরাতে শুক্রবার এ তথ্য প্রকাশ করেছে রয়টার্স।

নতুন ব্যয়-পরিকল্পনা অনুযায়ী, এই চার বছরে শুধু প্রতিরক্ষা খাতেই খরচ করবে ১৮ লাখ ৫০ হাজার কোটি রুবল। এর মধ্যে চলতি বছর খরচ হবে ৪ লাখ ৭০ হাজার কোটি রুবল।

আগের বাজেটে চলতি বছর প্রতিরক্ষা খাতে ৩ লাখ ৫০ হাজার কোটি রুবল খরচের পরিকল্পনা ছিল। আর ২০২২ থেকে ২০২৪ সাল পর্যন্ত মোট ১০ দশমিক ৯ ট্রিলিয়ন রুবল খরচ ধরা হয়েছিল।

তবে নিরাপত্তা ও আইনশৃঙ্খলা খাতের ২ লাখ ৮০ হাজার কোটি রুবল খরচের পরিকল্পনা অপরিবর্তিত থাকছে। এদিকে ‘যারা পরমাণু অস্ত্র দিয়ে আমাদের ব্ল্যাকমেইল করার চেষ্টা করছে তাদের জানা উচিত যে বাতাসও তাদের দিকে ঘুরতে পারে।’

ইউক্রেন ইস্যুতে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের এ হুমকির পর গভীর উদ্বেগ সৃষ্টি হয়েছে সারা বিশ্বেই। যদি সত্যিই হামলা চালায় তো কেমন হবে ইউক্রেন পরিস্থিতি?

এ নিয়ে বেশ কয়েকজন বিশেষজ্ঞ ও কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলেছে এএফপি। তবে বিশ্লেষকরা নিশ্চিত নন যে ১৯৪৫ সালে যুক্তরাষ্ট্রের জাপানে বোমা হামলার পুতিনই প্রথম পরমাণু অস্ত্র ব্যবহারে আগ্রহী হবেন।

রাশিয়ার পরমাণু আক্রমণ দেখতে কেমন হবে? বিশ্লেষকরা বলছেন, মস্কো সম্ভবত এক বা একাধিক ‘কৌশলগত’ বা যুদ্ধক্ষেত্রে পরমাণু বোমা ব্যবহার করবে।

এগুলো হলো ছোট অস্ত্র, সবচেয়ে বড় মার্কিন কৌশলগত ওয়ারহেডের ১.২ মেগাটন অথবা ১৯৬১ সালে রাশিয়া যে ৫৮ মেগাটন বোমা পরীক্ষা করেছিল। সে তুলনায় এই পরমাণু বোমাগুলো ০.৩ কিলোটন থেকে ১০০ কিলোটন বিস্ফোরক শক্তির হবে।

কৌশলগত বোমাগুলো আরও শক্তিশালী পরমাণু অস্ত্র সর্বাত্মক যুদ্ধ জয়ের জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। কিন্তু ‘ছোট’ এবং ‘সীমিত’ এখানে আপেক্ষিক। যুক্তরাষ্ট্র হিরোশিমায় ১৯৪৫ সালে যে পরমাণু বোমা ফেলেছিল তা ধ্বংসাত্মক প্রভাব ছিল মাত্র ১৫ কিলোটন।

মস্কো কি লক্ষ্যবস্তু করবে? ইউক্রেনে পরমাণু বোমা হামলার ক্ষেত্রে রাশিয়ার লক্ষ্য হবে দেশটিকে আত্মসমর্পণে বাধ্য করা। পশ্চিমা সমর্থকদের বিভক্ত করা।

ওয়াশিংটনে সিএসআইএস আন্তর্জাতিক নিরাপত্তা কর্মসূচির সামরিক বিশেষজ্ঞ মার্ক ক্যানসিয়ান বলেছেন, রাশিয়া সম্ভবত সামনের সারিতে পরমাণু অস্ত্র ব্যবহার করবে না।

২০ মাইল (৩২ কিলোমিটার) অঞ্চল দখল করতে ২০টি ছোট পরমাণু বোমার প্রয়োজন হতে পারে, এটি বিশাল পরমাণু ঝুঁকির মধ্যে ছোট লাভ। তবে শুধু একটি ব্যবহার করাই যথেষ্ট হবে না বলেও জানান তিনি।

আরও শক্তিশালী বার্তা পাঠাতে পানির ওপর একটি পরমাণু বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়ে উল্লেখযোগ্য হতাহতের ঘটনা এড়াতে পারে। অথবা একটি ইলেকট্রোম্যাগনেটিক পালস তৈরি করতে ইউক্রেনের আকাশের অনেক উচ্চতায় বিস্ফোরণ ঘটিয়ে ইলেকট্রনিক যন্ত্রপাতি অচল করে দিতে পারে। অথবা বৃহত্তর ধ্বংস এবং মৃত্যু বেছে নিতে পারেন পুতিন।

রাশিয়ার হাতে কতগুলো পারমাণবিক অস্ত্র আছে? ‘ফেডারেশন অব আমেরিকান সায়েন্টিস্টে’র মতে, রাশিয়ার হাতে ৫৯৭৭টি ‘নিউক্লিয়ার ওয়ারহেড’ রয়েছে।

এই নিউক্লিয়ার ওয়ারহেডগুলো ক্ষেপণাস্ত্রের মাথায় জুড়ে দিয়ে পারমাণবিক বিস্ফোরণ ঘটানো যায়। তবে, এর মধ্যে রয়েছে প্রায় ১৫০০টি অত্যন্ত পুরোনো।

প্রায় নষ্ট হয়ে গেছে। ৪৫০০টি কৌশলগত পারমাণবিক অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র বা রকেট। বাকিগুলো স্বল্প-পরিসরে ব্যবহারের জন্য ছোট আকারের কম ধ্বংসাত্মক পারমাণবিক অস্ত্র। বিশেষজ্ঞদের অনুমান, প্রায় ১৫০০ রুশ ওয়ারহেড বর্তমানে মোতায়েন রয়েছে।

অর্থাৎ বোমারু বিমান বা সাবমেরিনগুলোতে স্থাপন করা আছে। বর্তমানে বিশ্বের নয়টি দেশের হাতে পারমাণবিক অস্ত্র রয়েছে- যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য, চিন, ফ্রান্স, ভারত, পাকিস্তান, উত্তর কোরিয়া ও ইসরাইল।

ছবি

রুশ হামলায় ১৩ হাজার ইউক্রেনীয় সেনা নিহত

ছবি

দক্ষিণ কোরিয়ার আকাশসীমায় চীন-রাশিয়ার যুদ্ধবিমান

ছবি

অশ্লীল ভিডিও কলে ফাঁসিয়ে ব্ল্যাকমেইল করা হচ্ছে যেভাবে

ছবি

সর্বজনীন ঐক্যের ভাবনার প্রসার ঘটাবে ভারতের জি২০ প্রেসিডেন্সি

ছবি

চীনের দুই শহরে কোভিডবিধি শিথিল

ছবি

যুক্তরাষ্ট্রে ওয়ালমার্টের বিরুদ্ধে ৫ কোটি ডলারের ক্ষতিপূরণ মামলা

ছবি

আফগানিস্তানে মাদ্রাসায় বোমা হামলায় নিহত ১৭

ছবি

পাকিস্তানে কয়লাখনিতে বিস্ফোরণ, নিহত ৯

ছবি

লকডাউনবিরোধী বিক্ষোভের পর চীনে বিধি-নিষেধ শিথিল

ছবি

ভারতে মোদি-অমিত শাহর গুজরাটে বিধানসভা নির্বাচন আজ

ছবি

চীনের সাবেক নেতা জিয়াং জেমিন আর নেই

ছবি

অস্ট্রেলিয়ায় গোপনে পাঁচ মন্ত্রী দায়িত্ব নেন মরিসন

ছবি

পাকিস্তানে আত্মঘাতী বোমা হামলায় পুলিশসহ নিহত ৩

ছবি

চীনের গুয়াংজু শহরে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষ

ছবি

চীনে বিক্ষোভকারীদের হাতে কেন ‘সাদা কাগজ’

ছবি

ভারতে কারখানায় আগুন, শিশুসহ নিহত ৬

ছবি

৪০০ পারমাণবিক ওয়ারহেডের মালিক চীন

ছবি

বিশ্বে ২৪ ঘণ্টায় করোনায় ৮৪৮ জনের মৃত্যু

ছবি

নিজেদের তিয়ানগং মহাকাশ স্টেশনে পৌঁছালেন চীনের ৩ নভোচারী

পশ্চিম তীরে ইসরায়েলি বাহিনীর হাতে ২ ফিলিস্তিনি নিহত

ছবি

করোনাভাইরাস মোকাবিলায় ন্যাসাল ভ্যাকসিনের অনুমোদন দিলো ভারত

ছবি

শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ দমন থেকে বিরত থাকতে চীনকে আহ্বান জাতিসংঘের

ছবি

দিল্লিতে খোলা তলোয়ার নিয়ে পুলিশের ভ্যানে হামলা

ছবি

শীতকে যুদ্ধের অস্ত্র হিসেবে ব্যবহার করছে রাশিয়া : ন্যাটো

ছবি

ইরানের সঙ্গে সম্পর্ক ছিন্ন করতে বিশ্বকে আহ্বান খামেনির ভাগনির

ছবি

চীন-যুক্তরাজ্য সম্পর্কের সোনালি যুগ শেষ: ঋষি

ছবি

বিশ্বে করোনায় আরও ৫০৮ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ২ লাখ ৭২ হাজার

ছবি

মশার কামড়ে ৪ সপ্তাহ কোমায়, করতে হয়েছে ৩০টি অপারেশন

ছবি

বিশ্বের সবচেয়ে বড় আগ্নেয়গিরির উদগীরণ শুরু, হাওয়াইতে সতর্কতা

ভারতে মুসলিম শিক্ষার্থীকে সন্ত্রাসী বলায় শিক্ষক বরখাস্ত

ছবি

এবার বিবাহবহির্ভূত সম্পর্কের জেরে স্বামীকে হত্যার পর ২২ টুকরো

ছবি

পারমাণবিক অস্ত্রে বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিধর হতে চায় উত্তর কোরিয়া

ছবি

সার্ব ও আলবেনিয়া সরকারের মধ্যে ফের উত্তেজনা কেন?

ছবি

খামেনির ভাগ্নিকে গ্রেপ্তার

ছবি

চীনে বিক্ষোভ বাড়ছেই, সাংহাইতে পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষ

ছবি

বিশ্বজুড়ে করোনায় কমেছে শনাক্ত-মৃত্যু

tab

আন্তর্জাতিক

প্রতিরক্ষা ব্যয় বাড়াচ্ছে রাশিয়া

৪ বছরে খরচ করবে ৩৪ লাখ কোটি রুবল * পরমাণু হামলা চালালে কী হবে ইউক্রেনে

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট

রোববার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২

দীর্ঘমেয়াদি যুদ্ধ পরিকল্পনার পথে এগোচ্ছে রাশিয়া। এ লক্ষ্য বাস্তবায়নে ২০২২-২৫ সাল পর্যন্ত ৪ বছরে খরচ করবে ৩৪ লাখ কোটি রুবল (৬০ হাজার কোটি ডলার; এক রুবল সমান ৫৬.২৫ ডলার) খরচের পরিকল্পনা করছে মস্কো।

যা দেশটির প্রচলিত বাজেটের থেকে অনেক বেশি। প্রতিরক্ষা, নিরাপত্তা ও অভ্যন্তরীণ আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় ব্যয় হবে এই অর্থ। রাশিয়ার অর্থ মন্ত্রণালয়ের এক কর্মকর্তার বরাতে শুক্রবার এ তথ্য প্রকাশ করেছে রয়টার্স।

নতুন ব্যয়-পরিকল্পনা অনুযায়ী, এই চার বছরে শুধু প্রতিরক্ষা খাতেই খরচ করবে ১৮ লাখ ৫০ হাজার কোটি রুবল। এর মধ্যে চলতি বছর খরচ হবে ৪ লাখ ৭০ হাজার কোটি রুবল।

আগের বাজেটে চলতি বছর প্রতিরক্ষা খাতে ৩ লাখ ৫০ হাজার কোটি রুবল খরচের পরিকল্পনা ছিল। আর ২০২২ থেকে ২০২৪ সাল পর্যন্ত মোট ১০ দশমিক ৯ ট্রিলিয়ন রুবল খরচ ধরা হয়েছিল।

তবে নিরাপত্তা ও আইনশৃঙ্খলা খাতের ২ লাখ ৮০ হাজার কোটি রুবল খরচের পরিকল্পনা অপরিবর্তিত থাকছে। এদিকে ‘যারা পরমাণু অস্ত্র দিয়ে আমাদের ব্ল্যাকমেইল করার চেষ্টা করছে তাদের জানা উচিত যে বাতাসও তাদের দিকে ঘুরতে পারে।’

ইউক্রেন ইস্যুতে রুশ প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিনের এ হুমকির পর গভীর উদ্বেগ সৃষ্টি হয়েছে সারা বিশ্বেই। যদি সত্যিই হামলা চালায় তো কেমন হবে ইউক্রেন পরিস্থিতি?

এ নিয়ে বেশ কয়েকজন বিশেষজ্ঞ ও কর্মকর্তার সঙ্গে কথা বলেছে এএফপি। তবে বিশ্লেষকরা নিশ্চিত নন যে ১৯৪৫ সালে যুক্তরাষ্ট্রের জাপানে বোমা হামলার পুতিনই প্রথম পরমাণু অস্ত্র ব্যবহারে আগ্রহী হবেন।

রাশিয়ার পরমাণু আক্রমণ দেখতে কেমন হবে? বিশ্লেষকরা বলছেন, মস্কো সম্ভবত এক বা একাধিক ‘কৌশলগত’ বা যুদ্ধক্ষেত্রে পরমাণু বোমা ব্যবহার করবে।

এগুলো হলো ছোট অস্ত্র, সবচেয়ে বড় মার্কিন কৌশলগত ওয়ারহেডের ১.২ মেগাটন অথবা ১৯৬১ সালে রাশিয়া যে ৫৮ মেগাটন বোমা পরীক্ষা করেছিল। সে তুলনায় এই পরমাণু বোমাগুলো ০.৩ কিলোটন থেকে ১০০ কিলোটন বিস্ফোরক শক্তির হবে।

কৌশলগত বোমাগুলো আরও শক্তিশালী পরমাণু অস্ত্র সর্বাত্মক যুদ্ধ জয়ের জন্য ডিজাইন করা হয়েছে। কিন্তু ‘ছোট’ এবং ‘সীমিত’ এখানে আপেক্ষিক। যুক্তরাষ্ট্র হিরোশিমায় ১৯৪৫ সালে যে পরমাণু বোমা ফেলেছিল তা ধ্বংসাত্মক প্রভাব ছিল মাত্র ১৫ কিলোটন।

মস্কো কি লক্ষ্যবস্তু করবে? ইউক্রেনে পরমাণু বোমা হামলার ক্ষেত্রে রাশিয়ার লক্ষ্য হবে দেশটিকে আত্মসমর্পণে বাধ্য করা। পশ্চিমা সমর্থকদের বিভক্ত করা।

ওয়াশিংটনে সিএসআইএস আন্তর্জাতিক নিরাপত্তা কর্মসূচির সামরিক বিশেষজ্ঞ মার্ক ক্যানসিয়ান বলেছেন, রাশিয়া সম্ভবত সামনের সারিতে পরমাণু অস্ত্র ব্যবহার করবে না।

২০ মাইল (৩২ কিলোমিটার) অঞ্চল দখল করতে ২০টি ছোট পরমাণু বোমার প্রয়োজন হতে পারে, এটি বিশাল পরমাণু ঝুঁকির মধ্যে ছোট লাভ। তবে শুধু একটি ব্যবহার করাই যথেষ্ট হবে না বলেও জানান তিনি।

আরও শক্তিশালী বার্তা পাঠাতে পানির ওপর একটি পরমাণু বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়ে উল্লেখযোগ্য হতাহতের ঘটনা এড়াতে পারে। অথবা একটি ইলেকট্রোম্যাগনেটিক পালস তৈরি করতে ইউক্রেনের আকাশের অনেক উচ্চতায় বিস্ফোরণ ঘটিয়ে ইলেকট্রনিক যন্ত্রপাতি অচল করে দিতে পারে। অথবা বৃহত্তর ধ্বংস এবং মৃত্যু বেছে নিতে পারেন পুতিন।

রাশিয়ার হাতে কতগুলো পারমাণবিক অস্ত্র আছে? ‘ফেডারেশন অব আমেরিকান সায়েন্টিস্টে’র মতে, রাশিয়ার হাতে ৫৯৭৭টি ‘নিউক্লিয়ার ওয়ারহেড’ রয়েছে।

এই নিউক্লিয়ার ওয়ারহেডগুলো ক্ষেপণাস্ত্রের মাথায় জুড়ে দিয়ে পারমাণবিক বিস্ফোরণ ঘটানো যায়। তবে, এর মধ্যে রয়েছে প্রায় ১৫০০টি অত্যন্ত পুরোনো।

প্রায় নষ্ট হয়ে গেছে। ৪৫০০টি কৌশলগত পারমাণবিক অস্ত্রের মধ্যে রয়েছে ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র বা রকেট। বাকিগুলো স্বল্প-পরিসরে ব্যবহারের জন্য ছোট আকারের কম ধ্বংসাত্মক পারমাণবিক অস্ত্র। বিশেষজ্ঞদের অনুমান, প্রায় ১৫০০ রুশ ওয়ারহেড বর্তমানে মোতায়েন রয়েছে।

অর্থাৎ বোমারু বিমান বা সাবমেরিনগুলোতে স্থাপন করা আছে। বর্তমানে বিশ্বের নয়টি দেশের হাতে পারমাণবিক অস্ত্র রয়েছে- যুক্তরাষ্ট্র, রাশিয়া, যুক্তরাজ্য, চিন, ফ্রান্স, ভারত, পাকিস্তান, উত্তর কোরিয়া ও ইসরাইল।

back to top