alt

রাজনীতি

সাংবাদিক রোজিনার সঙ্গে যা হয়েছে ন্যক্কারজনক: ফখরুল

প্রতিনিধি, ঠাকুরগাঁও : মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১
image

সচিবালয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে দৈনিক প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলামকে আটকে রেখে শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সেখানে রোজিনা ইসলামের সঙ্গে যা হয়েছে তা ন্যক্কারজনক বলে মন্তব্য করেন বিএনপি মহাসচিব।

মঙ্গলবার সকালে ঠাকুরগাঁওয়ে নিজ বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে ফখরুল এই মন্তব্য করেন। তিনি রোজিনা ইসলামের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা প্রত্যাহার করে তার মুক্তি দাবি করেছেন।

ফখরুল বলেন, ‘করোনাসংক্রান্ত দুর্নীতি জনসমক্ষে প্রকাশ করেছেন রোজিনা ইসলাম। এই অপরাধে মন্ত্রণালয়ে সচিবের কার্যালয়ে তাকে পাঁচ ঘণ্টা আটকে রেখে শারীরিক-মানসিক নির্যাতন করে মিথ্যা মামলা দেয়া হয়েছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা জানাই।’

ফখরুল বলেন, ‘গণতন্ত্রিক সমাজকে ধ্বংস করে দেয়ার জন্য এটা সরকারের একটা নীলনকশা। বাংলাদেশে কোনো মানুষের অধিকার নেই। সুপরিকল্পিতভাবে সাংবাদিকদের মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করা হয়েছে, লয়ারদের মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করা হয়েছে, ডাক্তারের মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করা হয়েছে। সমাজকে বিভক্ত করে ধ্বংস করা হচ্ছে।’

এসময় জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি তৈমুর রহমান, পৌর বিএনপির সভাপতি আব্দুল হামিদ, সাধারণ সম্পাদক ওবায়েদুল্লাহ মাসুদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে সোমবার রাতে এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘এই ন্যাক্কারজনক ঘটনায় প্রমাণ হয়, বাংলাদেশে এখন স্বাধীন সাংবাদিকতা এবং তথ্য পাবার কোনো সুযোগ অবশিষ্ট নাই।’

বিবৃতিতে ফখরুল বলেন, ‘রোজিনা ইসলাম একজন সিনিয়র সাংবাদিক। তার অনেক অনুসন্ধানী ও সাহসী রিপোর্টে সরকারের বিশেষ করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অনেক বড় বড় দুর্নীতির খবর জনগণ জানতে পেরেছে। সে জন্য সরকার তার ওপর নজরদারি করছিল বলে মনে হয়।’

বিবৃতিতে তিনি রোজিনা ইসলামকে মুক্তি, তার বিরুদ্ধে করা জিডি প্রত্যাহার ও তাকে আটকে রাখার সাথে জড়িতদের বিচার এবং সাংবাদিক দলন-নিপীড়ন বন্ধ করে স্বাধীন সাংবাদিকতা ও সঠিক তথ্য পাবার অধিকারে সরকারী হস্তক্ষেপ বন্ধের জোর দাবি জানান।

ছবি

মিটিংয়ে দাওয়াত না দেওয়ায় আ.লীগের ২ গ্রুপের সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধ ২

ছবি

মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক সংসদীয় কমিটির প্রস্তাবের নিন্দা ঐক্য ন্যাপের

ছবি

জিয়াই স্বাধীনতাযুদ্ধের প্রথম নায়ক: মির্জা ফখরুল

ছবি

সরকার বেপরোয়া গতিতে জুলুম-নির্যাতন চলছে: মির্জা ফখরুল

ছবি

আ.লীগ এমনি এমনি ক্ষমতা দেবে না: ফখরুল

ছবি

শাজাহান খান জামায়াত-বিএনপিকে পুনর্বাসিত করেছেন : মাদারীপুর আ.লীগ সভাপতি

ছবি

ব্যাপক পরিবর্তনে হেফাজতের নতুন কমিটি ঘোষণা

ছবি

বিএনপির নেতা আসলাম চৌধুরীর জামিন স্থগিত

ছবি

এবারের বাজেট অবাস্তবায়নযোগ্য: ফখরুল

ছবি

বিএনপি ভালো কিছু দেখতে পায় না: কাদের

ছবি

সিসিইউ থেকে খালেদা জিয়াকে কেবিনে স্থানান্তর

ছবি

প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর জন্য আরো বেশী বরাদ্দ প্রয়োজন : তরিকত ফেডারেশন

ছবি

তিন আসনে উপনির্বাচন: শুক্রবার থেকে আ.লীগের মনোনয়ন বিতরণ শুরু

ছবি

ফিলিস্তিনের জনগণের পাশে থাকবে তরীকত ফেডারেশন

ছবি

ঢাবিতে ছাত্রদলের কর্মসূচিতে ছাত্রলীগের হামলা, আহত ২০

ছবি

বিএনপির দায়িত্বশীলতা শূন্যের কোটায় পৌঁছে গেছে: কাদের

ছবি

খালেদা জিয়া জ্বরে আক্রান্ত

ছবি

বড় আকার নয়, জীবন বাঁচানোর বাজেট চায় বিএনপি

ছবি

‘সাম্প্রদায়িক গোষ্ঠীর পৃষ্ঠপোষক হচ্ছে বিএনপি’

ছবি

টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিলেন ওবায়দুল কাদের

ছবি

রোজিনার জামিনে প্রমাণিত আদালত সম্পূর্ণ স্বাধীন: কাদের

ছবি

ওবায়দুল কাদেরের বাসায় ফুল নিয়ে কাদের মির্জা

ছবি

গণমাধ্যমের শত্রুরা বন্ধু সেজে সরকারবিরোধী উস্কানি দিচ্ছে: কাদের

ছবি

বিএনপি গলাবাজি করলেই সরকার গণবিচ্ছিন্ন হবে না: কাদের

ছবি

এ সরকার রাজনৈতিক নয়, আমলাতান্ত্রিক: মির্জা ফখরুল

ছবি

সাংবাদিকদের ধৈর্য ধরতে বললেন ওবায়দুল কাদের

ছবি

শেখ হাসিনা দেশে ফিরেছেন বলেই দেশ ডিজিটাল হয়েছে: আইসিটি প্রতিমন্ত্রী পলক

ছবি

শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ

ছবি

শেখ হাসিনার চলার পথ পুষ্প বিছানো ছিল না: কাদের

ছবি

রাজনৈতিক ব্লেম গেম থেকে বিরত থাকা সবার দায়িত্ব ও কর্তব্য: কাদের

ছবি

করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে ফটোসেশনেও অনুপস্থিত বিএনপি: তথ্যমন্ত্রী

ছবি

ইলিয়াস আলীকে ফিরিয়ে দেওয়া এ সরকারের দায়িত্ব : মির্জা ফখরুল

ছবি

‘বিএনপির আন্দোলনে নয়, খালেদা জিয়াকে মানবিক কারণে মুক্তি দিয়েছেন’

ছবি

খালেদা জিয়া প্রতিহিংসামূলক রাজনীতির শিকার : মির্জা ফখরুল

ছবি

খালেদা জিয়ার আবেদন স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে

ছবি

খালেদা জিয়ার বিষয়ে মতামত আজকের মধ্যেই

tab

রাজনীতি

সাংবাদিক রোজিনার সঙ্গে যা হয়েছে ন্যক্কারজনক: ফখরুল

প্রতিনিধি, ঠাকুরগাঁও
image

মঙ্গলবার, ১৮ মে ২০২১

সচিবালয়ে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ে দৈনিক প্রথম আলোর জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক রোজিনা ইসলামকে আটকে রেখে শারীরিক ও মানসিকভাবে নির্যাতন করা হয়েছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। সেখানে রোজিনা ইসলামের সঙ্গে যা হয়েছে তা ন্যক্কারজনক বলে মন্তব্য করেন বিএনপি মহাসচিব।

মঙ্গলবার সকালে ঠাকুরগাঁওয়ে নিজ বাসভবনে এক সংবাদ সম্মেলনে ফখরুল এই মন্তব্য করেন। তিনি রোজিনা ইসলামের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা প্রত্যাহার করে তার মুক্তি দাবি করেছেন।

ফখরুল বলেন, ‘করোনাসংক্রান্ত দুর্নীতি জনসমক্ষে প্রকাশ করেছেন রোজিনা ইসলাম। এই অপরাধে মন্ত্রণালয়ে সচিবের কার্যালয়ে তাকে পাঁচ ঘণ্টা আটকে রেখে শারীরিক-মানসিক নির্যাতন করে মিথ্যা মামলা দেয়া হয়েছে। আমরা এর তীব্র নিন্দা জানাই।’

ফখরুল বলেন, ‘গণতন্ত্রিক সমাজকে ধ্বংস করে দেয়ার জন্য এটা সরকারের একটা নীলনকশা। বাংলাদেশে কোনো মানুষের অধিকার নেই। সুপরিকল্পিতভাবে সাংবাদিকদের মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করা হয়েছে, লয়ারদের মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করা হয়েছে, ডাক্তারের মধ্যে বিভেদ সৃষ্টি করা হয়েছে। সমাজকে বিভক্ত করে ধ্বংস করা হচ্ছে।’

এসময় জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি তৈমুর রহমান, পৌর বিএনপির সভাপতি আব্দুল হামিদ, সাধারণ সম্পাদক ওবায়েদুল্লাহ মাসুদ প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

এর আগে সোমবার রাতে এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ‘এই ন্যাক্কারজনক ঘটনায় প্রমাণ হয়, বাংলাদেশে এখন স্বাধীন সাংবাদিকতা এবং তথ্য পাবার কোনো সুযোগ অবশিষ্ট নাই।’

বিবৃতিতে ফখরুল বলেন, ‘রোজিনা ইসলাম একজন সিনিয়র সাংবাদিক। তার অনেক অনুসন্ধানী ও সাহসী রিপোর্টে সরকারের বিশেষ করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের অনেক বড় বড় দুর্নীতির খবর জনগণ জানতে পেরেছে। সে জন্য সরকার তার ওপর নজরদারি করছিল বলে মনে হয়।’

বিবৃতিতে তিনি রোজিনা ইসলামকে মুক্তি, তার বিরুদ্ধে করা জিডি প্রত্যাহার ও তাকে আটকে রাখার সাথে জড়িতদের বিচার এবং সাংবাদিক দলন-নিপীড়ন বন্ধ করে স্বাধীন সাংবাদিকতা ও সঠিক তথ্য পাবার অধিকারে সরকারী হস্তক্ষেপ বন্ধের জোর দাবি জানান।

back to top