alt

রাজনীতি

শ্রমিকরা ন্যায্য দাবি থেকে বঞ্চিত হচ্ছে: ফখরুল

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : রোববার, ০১ মে ২০২২

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, শ্রমিকরা ন্যায্য দাবি থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।, দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতিতে শ্রমিকরা চরম কষ্টে আছে, যে আওয়াজ সরকারের কানে যায় না। শ্রমিকদের জন্য আজকে হাসপাতাল হয় না, চিকিৎসার সুযোগ পায় না, শিক্ষার সুযোগ পায় না।

রোববার (১ মে) রাজধানীর নয়াপল্টনে মে দিবস উপলক্ষে শ্রমিকদল আয়োজিত এক র্যালি পূর্বক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

ফখরুল বলেন, মেগা প্রকল্পের কথা বললেও শ্রমিকদের কথা বলে না সরকার। তাদের জন্য কোনো কিছু করে না। মেগা উন্নয়ন করেন ভালো কথা কিন্তু শ্রমিক/সাধারণ মানুষ না খেয়ে থাকবে আর ক্ষমতাসীনরা কানাডার বেগমপাড়ায় বাড়ি বানাবেন, সেটা হবে না।

ফখরুল বলেন, সরকার জনগণের দ্বারা সম্পূর্ণভাবে প্রত্যাখ্যাত হয়েছে। সরকারের সঙ্গে জনগণের কোনো সম্পর্ক নেই। পরনির্ভরশীল সরকার নিজেদের স্বার্থ ছাড়া আর কিছু ভাবে না। নিষেধাজ্ঞা (র্যাবের) প্রত্যাহারে ভারতের কাছে অনুরোধ জাতির জন্য লজ্জার। ক্ষমতায় টিকে থাকতে হত্যা, গুম করে মানবাধিকার লঙ্ঘন করেছে তারা।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, রক্তপাত ছাড়া কখনো কোনো দাবি আদায় হয় না। রাস্তায় নেমে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারলে দাবি আদায় হয়। বাংলাদেশে জোর করে ক্ষমতা দখল করে বসে থাকা সরকার শ্রমিকসহ সবার অধিকার কেড়ে নিয়েছে। ন্যায্যমূল্যে সাধারণ মানুষকে তেল, চাল দিতে পারে না।

‘গণতান্ত্রিক অধিকারগুলোকে কেড়ে নেওয়া হয়েছে। ৩৫ লাখ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা। এ অবস্থা চলতে দেওয়া যায় না। গণতন্ত্রাকি আন্দোলনের জন্য এখনো খালেদা জিয়া অন্তরীণ। তাকে সংগ্রামের মধ্যদিয়ে মুক্ত করতে হবে।’

তিনি বলেন, নিরপেক্ষ সরকার কমিশনের অধীনে সব দলের অংশগ্রহণে নির্বাচনের দাবি আদায়ে বাধ্য করা হবে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, সংগঠন শক্তিশালী করতে হবে। বর্তমান সরকারকে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে ক্ষমতা হস্তান্তর করতে হবে, যারা নিরপেক্ষ কমিশনের অধীনে নির্বাচন ব্যবস্থা করে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠায় সহযোগিতা করবে।

এসময় বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, সভা-সমাবেশের অনুমতি মেলে না। সরকার উন্নয়ন দেখাচ্ছে, কিন্তু কলকারখানা বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। সরকারের ভ্রান্ত নীতির কারণে শ্রমিকরা একবেলা খাবার পাচ্ছে। উন্নয়নের নামে লুটপাট চলছে। সব অর্জনকে ধূলিসাৎ করেছে। বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ডে বৈধতা দিয়েছে সরকার।

নয়াপল্টনে হঠাৎ বিএনপির মশাল মিছিল, ১০ নেতা–কর্মী আটক

ছবি

বাম জোট ভাঙ্গলো: জোটে থাকছেনা বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি ও গণসংহতি আন্দোলন

ছবি

আগামী ১ অক্টোবর চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সম্মেলন: হানিফ

বিএনপির যড়যন্ত্র রুখতে পাড়ায় পাড়ায় পাহারা বসান :কৃষিমন্ত্রী

ছবি

কুমিল্লায় ফিরে ‘বিদ্রোহী’ ইমরান বললেন ‘ভিন্ন কথা’

ছবি

পদ্মা সেতু হওয়ায় বিএনপি বুকে বড় জ্বালা: কাদের

ছবি

কুমিল্লার ‘বিদ্রোহী’ ইমরান ‘বসে যাবেন’, বলছে আ.লীগ

ছবি

‘মানুষের মুখে হাসি দেখলে বিএনপি নেতাদের মুখে কালো মেঘের ছায়া পড়ে’

ছবি

কুমিল্লা সিটি নির্বাচন: নৌকার বিদ্রোহীকে ডেকেছে আ.লীগ

ছবি

বিমানবন্দরে মির্জা আব্বাসকে হেনস্তার অভিযোগ

ছবি

প্রেস ক্লাবের সামনে বিএনপির বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন

ছবি

সখীপুর জাতীয় পার্টির উপজেলা ও পৌর আহবায়ক কমিটি

ছাত্রদল সভাপতিসহ ২০ জনের বিরুদ্ধে মামলা : গ্রেপ্তার ২

খালেদাকে ‘টুস’ করে ফেলে দিতে চাওয়ায় ছাত্রদলের প্রতিবাদ

নৌকার বিরুদ্ধে নির্বাচন , হবিগঞ্জে আওয়ামী লীগের ৪ নেতা অব্যাহতি

ছবি

কুমিল্লায় বিএনপির নেতা-কর্মীদের নিবার্চনী প্রচারণায় অংশ না নিতে নির্দেশ

ছবি

সরকার বিএনপিকে এবার টোপে ফেলতে পারবে না: মোশাররফ

আগামী নির্বাচনে আ’লী এককভাবে ক্ষমতায় যাওয়ার চেষ্টা করছে : ফখরুল

ছবি

শেখ হাসিনার বক্তব্য নিয়ে বিএনপি বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে: কাদের

মেয়র পদে ৬, কাউন্সিলরে ১৪৮ প্রার্থী বৈধ

ছবি

বিএনপি থেকে সাক্কুকে আজীবন বহিষ্কার

ছবি

প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য নিয়ে যা বললেন মির্জা ফখরুল

ছবি

ফখরুলের প্রশ্ন : পদ্মা সেতু কি ওনাদের পৈতৃক সম্পত্তি দিয়ে বানানো হয়েছে

জামায়াত-শিবিরের ৪৯ নেতাকর্মী আটক

জাজিরার ৬ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে অর্ধশত, অন্য পদে ৩৬৮ জন প্রার্থীর মনোনয়নপত্র জমা

ছবি

কুসিক নির্বাচন: মনোনয়নপত্র জমা দিলেন সাক্কু

ছবি

শেখ হাসিনার স্বদেশ প্রত্যাবর্তন দিবস আজ

ছবি

কুসিক নির্বাচন: এমপি বাহারকে চিঠি দিচ্ছে ইসি

ছবি

কুমিল্লা সিটি নির্বাচনে লড়াইয়ে দেবর-ভাবী

ছবি

মনোনয়ন দাখিলের শেষ দিন আজ, সাক্কুর বিদায়

আগামী নির্বাচন : বিএনপির অংশগ্রহণ নিশ্চিতে পরিস্থিতি অনুযায়ী ব্যবস্থা আ’লীগের

ছবি

নির্বাচন সংবিধানের নিয়ম মেনেই হবে : বাহাউদ্দিন নাছিম

আ’লীগে রিফাত, বিএনপিতে বিভ্রান্তি

ছবি

কুমিল্লা সিটি নির্বাচন: ভোটের ১ মাস আগেই মাঠে বিজিবি

‘আ’লীগের একতরফা নির্বাচন করার স্বপ্ন বাস্তবায়িত হবে না’

ছবি

বিএনপির জাতীয় ঐক্যের ডাক নতুন তামাশা: কাদের

tab

রাজনীতি

শ্রমিকরা ন্যায্য দাবি থেকে বঞ্চিত হচ্ছে: ফখরুল

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট

রোববার, ০১ মে ২০২২

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, শ্রমিকরা ন্যায্য দাবি থেকে বঞ্চিত হচ্ছে।, দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতিতে শ্রমিকরা চরম কষ্টে আছে, যে আওয়াজ সরকারের কানে যায় না। শ্রমিকদের জন্য আজকে হাসপাতাল হয় না, চিকিৎসার সুযোগ পায় না, শিক্ষার সুযোগ পায় না।

রোববার (১ মে) রাজধানীর নয়াপল্টনে মে দিবস উপলক্ষে শ্রমিকদল আয়োজিত এক র্যালি পূর্বক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে তিনি এসব কথা বলেন।

ফখরুল বলেন, মেগা প্রকল্পের কথা বললেও শ্রমিকদের কথা বলে না সরকার। তাদের জন্য কোনো কিছু করে না। মেগা উন্নয়ন করেন ভালো কথা কিন্তু শ্রমিক/সাধারণ মানুষ না খেয়ে থাকবে আর ক্ষমতাসীনরা কানাডার বেগমপাড়ায় বাড়ি বানাবেন, সেটা হবে না।

ফখরুল বলেন, সরকার জনগণের দ্বারা সম্পূর্ণভাবে প্রত্যাখ্যাত হয়েছে। সরকারের সঙ্গে জনগণের কোনো সম্পর্ক নেই। পরনির্ভরশীল সরকার নিজেদের স্বার্থ ছাড়া আর কিছু ভাবে না। নিষেধাজ্ঞা (র্যাবের) প্রত্যাহারে ভারতের কাছে অনুরোধ জাতির জন্য লজ্জার। ক্ষমতায় টিকে থাকতে হত্যা, গুম করে মানবাধিকার লঙ্ঘন করেছে তারা।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, রক্তপাত ছাড়া কখনো কোনো দাবি আদায় হয় না। রাস্তায় নেমে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে পারলে দাবি আদায় হয়। বাংলাদেশে জোর করে ক্ষমতা দখল করে বসে থাকা সরকার শ্রমিকসহ সবার অধিকার কেড়ে নিয়েছে। ন্যায্যমূল্যে সাধারণ মানুষকে তেল, চাল দিতে পারে না।

‘গণতান্ত্রিক অধিকারগুলোকে কেড়ে নেওয়া হয়েছে। ৩৫ লাখ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলা। এ অবস্থা চলতে দেওয়া যায় না। গণতন্ত্রাকি আন্দোলনের জন্য এখনো খালেদা জিয়া অন্তরীণ। তাকে সংগ্রামের মধ্যদিয়ে মুক্ত করতে হবে।’

তিনি বলেন, নিরপেক্ষ সরকার কমিশনের অধীনে সব দলের অংশগ্রহণে নির্বাচনের দাবি আদায়ে বাধ্য করা হবে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, সংগঠন শক্তিশালী করতে হবে। বর্তমান সরকারকে নিরপেক্ষ সরকারের অধীনে ক্ষমতা হস্তান্তর করতে হবে, যারা নিরপেক্ষ কমিশনের অধীনে নির্বাচন ব্যবস্থা করে জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠায় সহযোগিতা করবে।

এসময় বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম-মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী বলেন, সভা-সমাবেশের অনুমতি মেলে না। সরকার উন্নয়ন দেখাচ্ছে, কিন্তু কলকারখানা বন্ধ হয়ে যাচ্ছে। সরকারের ভ্রান্ত নীতির কারণে শ্রমিকরা একবেলা খাবার পাচ্ছে। উন্নয়নের নামে লুটপাট চলছে। সব অর্জনকে ধূলিসাৎ করেছে। বিচারবহির্ভূত হত্যাকাণ্ডে বৈধতা দিয়েছে সরকার।

back to top