alt

মিডিয়া

সাফল্যের তিনযুগে ‘অবসকিউর’ এবং টিপু

বিনোদন প্রতিবেদক : রোববার, ২৫ এপ্রিল ২০২১

বাংলাদেশের প্রাচীন ব্যান্ড দলগুলোর মধ্যে অন্যতম একটি ‘অবস্কিউর’। ১৯৮৫ সালে টিপু’র হাত ধরে যে ব্যান্ডদলটির যাত্রা শুরু হয়েছিল এবং যাত্রার শুরুতেই সারা দেশে আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল। টিপু এক সময় একক অ্যালবাম ‘একাকী একজন’ (১৯৯০), ‘ভবের পাগল’ (১৯৯২), ‘রঙধনু হতে চাই’ (২০০৭) এবং সর্বশেষ রবীন্দ্র সংগীতের অ্যালবাম ‘সকলই ফুরালো’ (২০০৮) প্রকাশ করেছেন। কিন্তু ‘অবস্কিউর’কে ছেড়ে একাকী ক্যারিয়ার গড়ার চিন্তা ছিল না তার।

এ প্রসঙ্গে টিপু বলেন, ‘যখন নিজের একক অ্যালবামগুলো প্রকাশ করছিলাম, তখন নিজের মনের ভেতর বোধোধয় হলো যে এভাবে চলাটা আমার ব্যান্ডদলের জন্য ক্ষতিকর। সরে দাঁড়ালাম নিজেকে এককভাবে প্রতিষ্ঠার ভাবনা থেকে।’ ১৯৮৫ সালে সারগাম থেকে প্রকাশিত অবসকিউর’র প্রথম অ্যালবাম ছিল ‘অবস্কিউর ভলিউম ওয়ান’।

এই অ্যালবামের ‘মাঝ রাতে চাঁদ যদি আলো না বিলায়’, ‘ছাইড়া গেলাম মাটির পৃথিবী’, ‘কলিকালের ভ- বাবা’সহ আরো বেশ কিছু গান শ্রোতা দর্শকের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলে। এরপর নানান সময়ে ‘অবস্কিউর ভলিউম টু’, ‘স্বপ্নচারিনী’, ‘ফেরাতে তোমায়’, ‘অপেক্ষায় থেকো’, ‘ইচ্ছের ডাকাডাকি’, ‘ফেরা’, ‘অবসকিউর ও বাংলাদেশ’,‘ স্টপ জনোসাইড’, ‘টিটোর স্বাধীনতা’সহ আরও বেশকিছু অ্যালবাম ও গান প্রকাশিত হয়। নিজের গান শেখা এবং সঙ্গীত জীবনে প্রাপ্তি প্রসঙ্গে টিপু বলেন, ‘গানে আমার প্রাতিষ্ঠানিক কোন শিক্ষা নেই। তবে ছোটবেলা থেকেই আমি শ্রদ্ধেয় মান্না দে, সন্ধ্যা মুখার্জি, লতা মুঙ্গেশকর, আশা ভোসলের গান শুনতাম। ব্যা-দল সোলস’র তপন দাদা মূলত আমার গানে আসার মূল অনুপ্রেরণা। গান গেয়ে ছোট্ট এই জীবনে মানুষের যে ভালোবাসা পেয়েছি, এটা আসলে বিরাট প্রাপ্তি।’

টিপু বর্তমানে গানের পাশাপাশি বন্ধু আলিমের সঙ্গে গার্মেন্ট ব্যবসার সঙ্গে সম্পৃক্ত। ১৯৬৭ সালের ১৬ জানুয়ারি জন্ম নেয়া টিপুর বাবা হিম্মত আলী (মারা গেছেন ১৯৯১ সালে), মা আনোয়ারা আক্তার (মারা গেছেন ১৯৮২ সালে)। তার এক মেয়ে আনায়া ও এক ছেলে অয়ন। তার জীবনে একমাত্র প্লেবেক এসআই টুটুলের সুর সঙ্গীতে তৌকীর আহমেদের ‘দারুচিনি দ্বীপ’ চলচ্চিত্রে।

ছবি

শীর্ষ ১১ সাংবাদিক নেতার ব্যাংক হিসাব তলবে সম্পাদক পরিষদের উদ্বেগ

ছবি

পররাষ্ট্রমন্ত্রীর নতুন বই ‘বাংলাদেশ- একুশ শতকের পররাষ্ট্রনীতি: উন্নয়ন ও নেতৃত্ব’

ছবি

প্রেস কাউন্সিল অ্যাওয়ার্ড পেলেন মাজহারুল ইসলাম মিচেল

ছবি

সাংবাদিকতার ভবিষ্যৎ বিষয়ক গোলটেবিল বৈঠক অনুষ্ঠিত

ছবি

জেলা পরিষদের অর্থায়নে মাদারীপুর প্রেসক্লাব ভবনের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন

সম্পাদক পরিষদে নঈম নিজামের পদত্যাগপত্র গৃহীত

ছবি

সভাপতি মোজাম্মেল বাবু, সাধারণ সম্পাদক ইনাম আহমেদ

ছবি

সাংবাদিক রোজিনা ইসলামের ব্যাংক হিসাব তলব

ছবি

বাংলাদেশি সাংবাদিকদের জন্য ফেসবুকের মোবাইল প্রশিক্ষণ কর্মসূচি

ছবি

ঢাকার গণহত্যা নিয়ে প্রথম প্রতিবেদন এবং সাইমন ড্রিং

ছবি

প্রধান তথ্য অফিসারের দায়িত্ব পেলেন শাহেনুর মিয়া

ছবি

আর শোনা যাবে না ভয়েস অফ আমেরিকার বাংলা বেতার সম্প্রচার

ছবি

কবি অরুণ দাশগুপ্ত আর নেই

ছবি

‘ওভারনাইট বান্দরবান পাঠিয়ে দেবো’ সংলাপের বিজ্ঞাপন বন্ধের নির্দেশ

ছবি

বিশ্বখ্যাত আলেফ হোল্ডিংয়ের চেয়ারম্যান বাংলাদেশি বংশোদ্ভুত ইমরান খান

ছবি

জৈন্তা বার্তা সম্পাদকের মাতার ইন্তেকাল

ছবি

ফিনান্সিয়াল এক্সপ্রেসের নির্বাহী সম্পাদক শহিদুজ্জামান আর নেই

ছবি

কারামুক্ত হলেন রোজিনা, সাংবাদিকতা চালিয়ে যাওয়ার ঘোষণা

ছবি

রোজিনার মুক্তির দাবিতে নারী সাংবাদিকদের প্রতীকী অনশন

ছবি

রোববার রোজিনার জামিন না হলে সাংবাদিকদের কঠোর কর্মসূচি

ছবি

সাংবাদিক রোজিনার মুক্তিসহ সাংবাদিকদের চার দফা দাবি

ছবি

সাংবাদিক রোজিনার জামিন শুনানি চলছে

ছবি

রোজিনা ইসলামকে হেনস্তা করায় তীব্র নিন্দা মানবাধিকার কমিশনের

ছবি

কাশিমপুর মহিলা কারাগারে সাংবাদিক রোজিনা

ছবি

রোজিনার রিমান্ড নামঞ্জুর, জামিনের সিদ্ধান্ত বৃহস্পতিবার

ছবি

আদালতে সাংবাদিক রোজিনা, অফিসিয়াল সিক্রেটস অ্যাক্টের মামলায় গ্রেপ্তার

ছবি

৭১ বছরে সংবাদ

ছবি

বিশ্ব মুক্ত গণমাধ্যম দিবস উদযাপন উপলক্ষে ওয়েবিনার অনুষ্ঠিত

ছবি

বাংলাদেশ মুক্ত গণমাধ্যম সূচকে আরও এক ধাপ পেছাল

ছবি

জনকণ্ঠ ভবনের মূল ফটকে তালা, চাকরিচ্যুত সাংবাদিকদের অবস্থান

ছবি

করোনায় মারা গেলেন প্রবীণ সাংবাদিক হাসান শাহরিয়ার

ছবি

সাংবাদিক আতিয়ার রহমান আর নেই

ছবি

ময়মনসিংহ প্রেসক্লাবের ৬২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

ছবি

‘ওকোড’র সঙ্গে যুক্ত হলো এসকে মিডিয়া’

ছবি

সাংবাদিকদের সঙ্গে মধুমতি ব্যাংকের পরিচালকের মতবিনিময়

ছবি

সাংবাদিক শাহীন রেজা নূরের মৃত্যুতে রাষ্ট্রপতির শোক

tab

মিডিয়া

সাফল্যের তিনযুগে ‘অবসকিউর’ এবং টিপু

বিনোদন প্রতিবেদক

রোববার, ২৫ এপ্রিল ২০২১

বাংলাদেশের প্রাচীন ব্যান্ড দলগুলোর মধ্যে অন্যতম একটি ‘অবস্কিউর’। ১৯৮৫ সালে টিপু’র হাত ধরে যে ব্যান্ডদলটির যাত্রা শুরু হয়েছিল এবং যাত্রার শুরুতেই সারা দেশে আলোড়ন সৃষ্টি করেছিল। টিপু এক সময় একক অ্যালবাম ‘একাকী একজন’ (১৯৯০), ‘ভবের পাগল’ (১৯৯২), ‘রঙধনু হতে চাই’ (২০০৭) এবং সর্বশেষ রবীন্দ্র সংগীতের অ্যালবাম ‘সকলই ফুরালো’ (২০০৮) প্রকাশ করেছেন। কিন্তু ‘অবস্কিউর’কে ছেড়ে একাকী ক্যারিয়ার গড়ার চিন্তা ছিল না তার।

এ প্রসঙ্গে টিপু বলেন, ‘যখন নিজের একক অ্যালবামগুলো প্রকাশ করছিলাম, তখন নিজের মনের ভেতর বোধোধয় হলো যে এভাবে চলাটা আমার ব্যান্ডদলের জন্য ক্ষতিকর। সরে দাঁড়ালাম নিজেকে এককভাবে প্রতিষ্ঠার ভাবনা থেকে।’ ১৯৮৫ সালে সারগাম থেকে প্রকাশিত অবসকিউর’র প্রথম অ্যালবাম ছিল ‘অবস্কিউর ভলিউম ওয়ান’।

এই অ্যালবামের ‘মাঝ রাতে চাঁদ যদি আলো না বিলায়’, ‘ছাইড়া গেলাম মাটির পৃথিবী’, ‘কলিকালের ভ- বাবা’সহ আরো বেশ কিছু গান শ্রোতা দর্শকের মধ্যে ব্যাপক সাড়া ফেলে। এরপর নানান সময়ে ‘অবস্কিউর ভলিউম টু’, ‘স্বপ্নচারিনী’, ‘ফেরাতে তোমায়’, ‘অপেক্ষায় থেকো’, ‘ইচ্ছের ডাকাডাকি’, ‘ফেরা’, ‘অবসকিউর ও বাংলাদেশ’,‘ স্টপ জনোসাইড’, ‘টিটোর স্বাধীনতা’সহ আরও বেশকিছু অ্যালবাম ও গান প্রকাশিত হয়। নিজের গান শেখা এবং সঙ্গীত জীবনে প্রাপ্তি প্রসঙ্গে টিপু বলেন, ‘গানে আমার প্রাতিষ্ঠানিক কোন শিক্ষা নেই। তবে ছোটবেলা থেকেই আমি শ্রদ্ধেয় মান্না দে, সন্ধ্যা মুখার্জি, লতা মুঙ্গেশকর, আশা ভোসলের গান শুনতাম। ব্যা-দল সোলস’র তপন দাদা মূলত আমার গানে আসার মূল অনুপ্রেরণা। গান গেয়ে ছোট্ট এই জীবনে মানুষের যে ভালোবাসা পেয়েছি, এটা আসলে বিরাট প্রাপ্তি।’

টিপু বর্তমানে গানের পাশাপাশি বন্ধু আলিমের সঙ্গে গার্মেন্ট ব্যবসার সঙ্গে সম্পৃক্ত। ১৯৬৭ সালের ১৬ জানুয়ারি জন্ম নেয়া টিপুর বাবা হিম্মত আলী (মারা গেছেন ১৯৯১ সালে), মা আনোয়ারা আক্তার (মারা গেছেন ১৯৮২ সালে)। তার এক মেয়ে আনায়া ও এক ছেলে অয়ন। তার জীবনে একমাত্র প্লেবেক এসআই টুটুলের সুর সঙ্গীতে তৌকীর আহমেদের ‘দারুচিনি দ্বীপ’ চলচ্চিত্রে।

back to top