alt

ক্যাম্পাস

জাবিতে ভবন নির্মান করতে রাতের আঁধারে কাটা হল ৫৬ টি গাছ

জাবি প্রতিনিধি : বুধবার, ০১ নভেম্বর ২০২৩

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের (আইবিএ) নতুন ভবন নির্মাণ করার জন্য রাতের আধারে ৫৬ টি গাছ কেটে ফেলেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

আজ বুধবার (১ নভেম্বর) ভোরে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র (টিএসসি) এলাকার সুন্দরবন নামক স্থানে গাছগুলো কাটা হয়। পরে বিষয়টি জানাজানি হলে বেলা সোয়া ১১ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল শিক্ষার্থী বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে ভবন নির্মাণের নির্ধারিত স্থানে যান। সেখানে ওই আইবিএ ইনস্টিটিউটের ভবন নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের নামফলক শিক্ষার্থীরা ভেঙে দেন।

এরপর দুপুর দেড়টার দিকে আরেকদল শিক্ষার্থী ভবন নির্মাণের নির্ধারিত স্থানে যেখানে গাছ কাটা হয়েছে সেখানে নতুন ১১টি গাছ লাগিয়ে দেন। দুপুর ৩টার দিকে শিক্ষার্থীরা একটি গাছে কাফনের কাপড় পরিয়ে লাশ বানিয়ে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন। মিছিলটি বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন প্রশাসনিক ভবনের সামনে গিয়ে শেষ হয়। পরে সেখানে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করেন তারা৷

এদিকে, নিয়ম অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয়ে গাছ কাটা হলে সেসব গাছ বিশ্ববিদ্যালয়ের এস্টেট কার্যালয়কে বুঝিয়ে দেওয়ার কথা। তবে গাছ কাটার পর কয়েকঘন্টা পার হলেও কাটা গাছগুলো এস্টেট কার্যালয়কে বুঝিয়ে দেওয়া হয়নি বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের এস্টেট অফিসের ডেপুটি রেজিস্টার আবদুর রহমান বাবুল।

এ বিষয়ে ইনস্টিটিউট অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের পরিচালক অধ্যাপক কে এম জাহিদুল ইসলাম সংবাদকে বলেন, গাছগুলো এস্টেট অফিসকে বুঝিয়ে দেওয়া হবে। গাছগুলো ক্যাম্পাসেই থাকার কথা। কোথায় রাখা আছে আমি জানিনা তবে জেনে আপনাকে জানানোর চেষ্টা করব।

রাতের আধারে গাছ কাটা প্রসঙ্গে ইনস্টিটিউট অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের পরিচালক অধ্যাপক কে.এম জাহিদুল ইসলাম বলেন, ওখানে ভবন করার জন্য সাবেক উপাচার্য জায়গা বরাদ্দ দিয়েছিল। নিয়মতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় টেন্ডার হয়েছে। ওয়ার্কঅর্ডার যারা পেয়েছেন তারা গাছগুলো কেটেছে। এখন তাদের যে সময় উপযুক্ত মনে হয়েছে বা লেবার এবেলেবেলিটি ছিল তখন কাজ করেছে।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ে চলমান উন্নয়ন প্রকল্পের সাথে গাছ কাটার কোনো সংযোগ নেই বলে জানিয়েছেন প্রকল্প সংশ্লিষ্টরা। তাদের দাবি, বৃক্ষ কর্তন করেছে আইবিএ সংশ্লিষ্টরা। তাদের ভবন নির্মাণের জন্য এ ধরনের সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকতে পারে। এর সাথে আমাদের প্রকল্পের কোনো সংযোগ নেই।

এ বিষয় জানতে বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য অধ্যাপক মো. নুরুল আলমের একাধিকবার কল দেওয়া হলে তিনি রিসিভ করেন নি।

আজ শুরু হলো জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তিযুদ্ধ, আসন প্রতি লড়বে ১০৮ জন

ছবি

জবি শিক্ষকদের রুমে লুকিয়ে চিঠি, আটকের পর জানা গেল হিযবুত তাহরীর সদস্য

ছবি

জবিতে শহীদ দিবস উপলক্ষ্যে চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত

রাবির হল প্রাধ্যক্ষকে ছাত্রলীগ নেতার হুমকি, কক্ষ সিলগালা

ছবি

জবির প্রক্টরিয়াল বডিতে নতুন দুই মুখ

ছবি

পাঁচ দফা দাবিতে জাবিতে নিপীড়নবিরোধী মঞ্চের মশাল মিছিল

ছবি

জবির নতুন প্রক্টর অধ্যাপক জাহাঙ্গীর

ছবি

জবি ছাত্রলীগের মারামারির দুই মামলার তদন্ত প্রতিবেদন ২১ মার্চ

ছবি

রাবিতে যথাযোগ্য মর্যাদায় শিক্ষক দিবস পালিত

ছবি

বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি মুছে ফেলার প্রতিবাদে দ্বিতীয় দিনেও আমরণ অনশনে জাবির ২ ছাত্রলীগ নেতা

ছবি

জবিতে জাতীয় স্নাতক গণিত অলিম্পিয়াড অনুষ্ঠিত

ছবি

বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতি মুছে ফেলার প্রতিবাদে ছাত্রলীগ নেতার আমরণ অনশন

ছবি

জবি ছাত্রলীগের দুই গ্রুপে সংঘর্ষ, আহত অন্তত ১০

ছবি

জবিতে সরস্বতী পূজায় নারী পুরোহিত

ঢাবিতে ক্যান্টিন মালিকের দাড়ি ছিঁড়ে ছাত্রলীগ নেতা বহিষ্কার

ছবি

৩৬ পূজামণ্ডপে হবে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে সরস্বতী পূজা

ঢাবি সাংবাদিকের সাথে অসৌজন্যমূলক আচরণের জন্য প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইলেন দুই ছাত্রলীগ নেতা

ছবি

জাবিতে পাঁচ দফা দাবিতে প্রতীকী অবরোধ

ঢাবি অধ্যাপকের বিরুদ্ধে যৌন ইঙ্গিতপূর্ণ কথা ও গোপন ক্যামেরায় ছাত্রীকে নজরদারির অভিযোগ

ছবি

দিনব্যাপী নানা আয়োজনে উন্মুক্ত লাইব্রেরির দ্বিতীয় প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন

ছবি

শিক্ষার্থীদের মনোজগতে মানবিক বাংলাদেশ সৃষ্টির আগ্রহ তৈরি করা জরুরি: উপাচার্য মশিউর রহমান

মোটরসাইকেলের হর্ন না শুনায় শিক্ষার্থীকে জবি ছাত্রলীগ নেতার মারধর

ছবি

আন্তঃবিশ্ববিদ্যালয় জুডোতে স্বর্ণপদক পেলেন জবি শিক্ষার্থী ইমন

ছবি

জবি চলচ্চিত্র সংসদের নেতৃত্বে সৈকত-রিক

ছবি

জবিতে পঞ্চম আবৃত্তি উৎসব অনুষ্ঠিত

ছবি

জাবিতে ধর্ষণের প্রতিবাদের নতুন প্ল্যাটফর্ম ‘নিপীড়নবিরোধী মঞ্চ’

ছবি

অবৈধভাবে অবস্থানরত শিক্ষার্থীদের ৫ দিনের মধ্যে হল ছাড়ার নির্দেশ

ছবি

জবির প্রক্টরিয়াল বডিতে বড় পরিবর্তন

জাবিতে ধর্ষণের ঘটনায় ৬ জনের সনদ স্থগিত, বহিষ্কৃত ৩

ছবি

জাবিতে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ, ঢাবিতে বিভিন্ন ছাত্র সংগঠনের প্রতিবাদ ও বিক্ষোভ

ছবি

নিজস্ব পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষার দাবি জবি নীলদলের

ছবি

জাবিতে স্বামীকে আটকে রেখে স্ত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ, ছাত্রলীগ নেতাসহ আটক ৪

জাবিতে শিক্ষক সমিতির নির্বাচনে বঙ্গবন্ধু শিক্ষক পরিষদ বিজয়ী

ছবি

এশিয়াটিক সোসাইটির সদস্য হলেন জবি উপাচার্য সাদেকা হালিম

ছবি

রাবির নির্মাণাধীন হলের ছাদ ধসে আহত ১০ শ্রমিক

ছবি

রাবি শিক্ষককে অতর্কিত হামলা ও হত্যাচেষ্টার প্রতিবাদে শিক্ষক সমিতির তিন দিনের আলটিমেটাম

tab

ক্যাম্পাস

জাবিতে ভবন নির্মান করতে রাতের আঁধারে কাটা হল ৫৬ টি গাছ

জাবি প্রতিনিধি

বুধবার, ০১ নভেম্বর ২০২৩

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ইনস্টিটিউট অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের (আইবিএ) নতুন ভবন নির্মাণ করার জন্য রাতের আধারে ৫৬ টি গাছ কেটে ফেলেছে বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন।

আজ বুধবার (১ নভেম্বর) ভোরে বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র (টিএসসি) এলাকার সুন্দরবন নামক স্থানে গাছগুলো কাটা হয়। পরে বিষয়টি জানাজানি হলে বেলা সোয়া ১১ টার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের একদল শিক্ষার্থী বিক্ষোভ মিছিল নিয়ে ভবন নির্মাণের নির্ধারিত স্থানে যান। সেখানে ওই আইবিএ ইনস্টিটিউটের ভবন নির্মাণের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপনের নামফলক শিক্ষার্থীরা ভেঙে দেন।

এরপর দুপুর দেড়টার দিকে আরেকদল শিক্ষার্থী ভবন নির্মাণের নির্ধারিত স্থানে যেখানে গাছ কাটা হয়েছে সেখানে নতুন ১১টি গাছ লাগিয়ে দেন। দুপুর ৩টার দিকে শিক্ষার্থীরা একটি গাছে কাফনের কাপড় পরিয়ে লাশ বানিয়ে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন। মিছিলটি বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন প্রশাসনিক ভবনের সামনে গিয়ে শেষ হয়। পরে সেখানে সংক্ষিপ্ত সমাবেশ করেন তারা৷

এদিকে, নিয়ম অনুযায়ী বিশ্ববিদ্যালয়ে গাছ কাটা হলে সেসব গাছ বিশ্ববিদ্যালয়ের এস্টেট কার্যালয়কে বুঝিয়ে দেওয়ার কথা। তবে গাছ কাটার পর কয়েকঘন্টা পার হলেও কাটা গাছগুলো এস্টেট কার্যালয়কে বুঝিয়ে দেওয়া হয়নি বলে জানিয়েছেন বিশ্ববিদ্যালয়ের এস্টেট অফিসের ডেপুটি রেজিস্টার আবদুর রহমান বাবুল।

এ বিষয়ে ইনস্টিটিউট অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের পরিচালক অধ্যাপক কে এম জাহিদুল ইসলাম সংবাদকে বলেন, গাছগুলো এস্টেট অফিসকে বুঝিয়ে দেওয়া হবে। গাছগুলো ক্যাম্পাসেই থাকার কথা। কোথায় রাখা আছে আমি জানিনা তবে জেনে আপনাকে জানানোর চেষ্টা করব।

রাতের আধারে গাছ কাটা প্রসঙ্গে ইনস্টিটিউট অব বিজনেস অ্যাডমিনিস্ট্রেশনের পরিচালক অধ্যাপক কে.এম জাহিদুল ইসলাম বলেন, ওখানে ভবন করার জন্য সাবেক উপাচার্য জায়গা বরাদ্দ দিয়েছিল। নিয়মতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় টেন্ডার হয়েছে। ওয়ার্কঅর্ডার যারা পেয়েছেন তারা গাছগুলো কেটেছে। এখন তাদের যে সময় উপযুক্ত মনে হয়েছে বা লেবার এবেলেবেলিটি ছিল তখন কাজ করেছে।

এদিকে বিশ্ববিদ্যালয়ে চলমান উন্নয়ন প্রকল্পের সাথে গাছ কাটার কোনো সংযোগ নেই বলে জানিয়েছেন প্রকল্প সংশ্লিষ্টরা। তাদের দাবি, বৃক্ষ কর্তন করেছে আইবিএ সংশ্লিষ্টরা। তাদের ভবন নির্মাণের জন্য এ ধরনের সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকতে পারে। এর সাথে আমাদের প্রকল্পের কোনো সংযোগ নেই।

এ বিষয় জানতে বিশ্ববিদ্যালয় উপাচার্য অধ্যাপক মো. নুরুল আলমের একাধিকবার কল দেওয়া হলে তিনি রিসিভ করেন নি।

back to top