alt

ক্যাম্পাস

ঢাবিতে গাঁজা সেবনকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের দেশীয় অস্ত্রের মহড়া

ঢাবি প্রতিনিধি : শুক্রবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২২

গাঁজা সেবনকে কেন্দ্র করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সলিমুল্লাহ মুসলিম (এসএম) হলে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে মহড়া দেয়ার অভিযোগ উঠেছে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে আটটায় সলিমুল্লাহ মুসলিম হলে ৩১ নাম্বার রুমে আরবি বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আহসান শাহিদ তন্ময় তার কয়েকজন বন্ধুকে নিয়ে গাঁজা সেবন শুরু করলে একই রুমে থাকা লোক প্রশাসন বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী মো. কিবরিয়া হাসান তাকে নিষেধ করে। এরপর একই রুমে থাকা দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মাইনুল ইসলাম নওশাদ আবারও নিষেধ করলে তার উপর চড়াও হয় হন তন্ময় । এখবর পেয়ে মাইনুলের সিনিয়র বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিদ চন্দ্র দাসের অনুসারীরা দেশীয় রামদা, রড, স্ট্যাম্প নিয়ে ৩১ নম্বর রুমের সামনে আসেন। এসময় খবর পেয়ে তন্ময়ের সিনিয়র ও বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসাইনের অনুসারীরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সেখানে জড়ো হন। তবে তাদের মধ্যে কোনো সংঘর্ষর ঘটনা ঘটেনি। এরপর হলের সিনিয়র নেতাদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

হল সূত্রে জানা যায়, হলের ৩১,৭৯,১৭৭ ও ১৪৯ নম্বর রুমে নিয়মিত মদ ও গাঁজার আসর বসে। আর এতে সাধারণ শিক্ষার্থীদের পড়াশুনার বিঘ্ন গঠলেও হল প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন ব্যবস্থা নেওয়া হয় না।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে অভিযুক্ত আহসান শাহিদ তন্ময় মাদক সেবনের কথা অস্বীকার করেন।

মিশাত সরকার সংবাদকে বলেন, রুমে বন্ধু-বান্ধবদের মধ্যে অভ্যন্তরীণ কিছু ঝামেলা হইছিল। আমরা সিনিয়ররা গিয়ে সেটা মিটমাট করে দিয়ে আসছি।

আতিকুর রহমান আতিক বলেন, পলিটিকাল রুমগুলোতে ইয়ারমেটদের মধ্যে বিভিন্ন বিষয়ে বাক-বিতন্ডার ঘটনা ঘটে। লাইট অফ-অন, সিগারেট খাওয়া নিয়ে মাঝে-মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এটা সেরকমই একটি বিষয়। গাঁজা খাওয়ার বিষয়টি সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোধিত একটি কথা। রড, রামদা, লাঠিসোটা নিয়েও কোনো মহড়া হয়নি। ঝামেলা হওয়ার পর দু’গ্রুপের সিনিয়ররা গিয়ে বিষয়টি সমাধান করে দিয়েছি।

হল প্রভোস্ট অধ্যাপক ড. মো. মুজিবর রহমান বলেন, আমি হাউজ টিউটরদের বলে দিয়েছি বিষয়টি দেখার জন্য। কেউ দোষী প্রমাণিত হলে বা ঘটনার পুনরাবৃত্তি হলে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। রুমগুলোতে কারো ব্যক্তিগত কোনো দেশীয় অস্ত্র, রড, রামদা আছে কিনা সেটিও খতিয়ে দেখা হবে।

কাল জাবি উপাচার্য প্যানেল নির্বাচন: লড়বেন আ.লীগপন্থী শিক্ষকদের তিন গ্রুপের প্রার্থীরা

বিশ্ববিদ্যালয়ের গুচ্ছ পরীক্ষায় প্রথম মনোহরদীর মেয়ে সুমাইয়া

ছবি

সামিয়া রহমানের কাছে ১১ লাখ ৪১ হাজার টাকা দাবি ঢাবির

ছবি

বঙ্গমাতা মেমোরিয়াল স্বর্ণপদক ও বৃত্তি পেলেন ঢাবির ১২ শিক্ষার্থী

ছবি

সমাবেশে হামলার প্রতিবাদে বামজোটের বিক্ষোভ

ছবি

সিটি ইউনিভার্সিটিতে রবি বিডি অ্যাপস ন্যাশনাল হ্যাকাথন রোডশো অনুষ্ঠিত

ছবি

জ্বালানির মূল্যবৃদ্ধি: জাহাঙ্গীরনগরে বিক্ষোভ, মহাসড়ক অবরোধ

ছবি

সিলেটে বন্যার্ত শিক্ষার্থীদের পাশে মার্কেটিং অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন

তেলের দাম বৃদ্ধির প্রতিবাদে ঢাবিতে মশাল মিছিল, বাধা দেওয়ার অভিযোগ ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে

রাবি ছাত্রী হত্যা মামলায় স্বামী ৩ দিনের রিমান্ডে

যৌন নির্যাতনের অভিযোগে ঢাবি ছাত্র বহিষ্কার

জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে বিদ্যুৎ সাশ্রয়ের লক্ষ্যে সপ্তাহে এক দিন অনলাইনে ক্লাস

চবিতে ছাত্রী নিপীড়নের দায়ে বহিষ্কৃত দুই ছাত্রলীগ কর্মী পরীক্ষায় বসেছেন

ছবি

ঢাবিতে ছাত্রলীগের বিরুদ্ধে বহিরাগতের মোটরসাইকেল, মোবাইল ও অর্থ ছিনতাইয়ের অভিযোগ

ছবি

প্রক্সিতে ধরা পড়েও রাবির ‘এ’ ইউনিটে প্রথম, অবশেষে ফল বাতিল

ছবি

ছাত্রলীগ : চিঠির ফাঁকা স্থানে নাম বসিয়ে দিলেই কেন্দ্রীয় কমিটির নেতা!

ছবি

ছাত্রী হেনস্তা : চবি ছাত্রলীগের দুই কর্মী বহিষ্কার হয়েও দিচ্ছেন পরীক্ষা

ছবি

রাবির ভর্তি পরীক্ষায় প্রক্সি দিয়ে ‘এ’ ইউনিটে প্রথম

ছবি

৪৬ দিন পর কলেজে ফিরছেন লাঞ্ছিত অধ্যক্ষ

ছবি

চবিতে ছাত্রলীগের অবরোধ স্থগিত

ছবি

লোডশেডিংয়ের প্রতিবাদে ঢাবি ছাত্রদলের বিক্ষোভ মিছিল

ঢাবি সুফিয়া কামাল হল ডিবেটিং ক্লাবের নেতৃত্বে মাহফুজা-তিথি

ছবি

ঢাবি শিক্ষকদের বিরুদ্ধে সাত কলেজের পরীক্ষার খাতা মূল্যায়নে অনিয়মের অভিযোগ

ছবি

কাজী নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে নম্বর জালিয়াতির বিষয়ে হাইকোর্টের রুল

ছবি

বেরোবির বিজনেস স্টাডিজ অনুষদের নতুন ডীন ড. মতিউর রহমান

ছবি

মাঙ্কিপক্স নিয়ে বিএসএমএমইউ ভিসির সতর্কতা

ছবি

গুচ্ছ ভর্তি পরীক্ষা: শাবিপ্রবি কেন্দ্রে উপস্থিত ৯৪.৫৪ শতাংশ

ছবি

বুলবুল হত্যাকান্ড: ক্যাম্পাসে নিরাপত্তা জোরদার শাবিপ্রবি প্রশাসনের

ছবি

রাবি শিক্ষার্থীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

রাবির ‘সি’ ইউনিটের ফল প্রকাশ ১ আগস্ট

ছবি

আঘাতের ১৫ মিনিটেই মৃত্যু হয়েছে শাবি শিক্ষার্থী বুলবুলের: চিকিৎসক

ছবি

জবিতে বিজ্ঞপ্তি ছাড়া ৬ পদে নিয়োগ, তদন্তে দীর্ঘসূত্রিতা

ছবি

সাম্প্রদায়িক সহিংসতার প্রতিবাদে বেরোবির শিক্ষক সমিতির মানববন্ধন

ছবি

প্রক্সিদাতার মুখে রাবি ছাত্রলীগ নেতার নাম

ছবি

ঢাবিতে পর্দা নামলো দুই দিনব্যাপী জাতীয় কুইজ প্রতিযোগিতার

ইবি ছাত্রলীগের কমিটি কবে হবে : সাধারণ ছাত্রদের প্রশ্ন

tab

ক্যাম্পাস

ঢাবিতে গাঁজা সেবনকে কেন্দ্র করে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের দেশীয় অস্ত্রের মহড়া

ঢাবি প্রতিনিধি

শুক্রবার, ১৪ জানুয়ারী ২০২২

গাঁজা সেবনকে কেন্দ্র করে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সলিমুল্লাহ মুসলিম (এসএম) হলে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে মহড়া দেয়ার অভিযোগ উঠেছে ছাত্রলীগের দুই গ্রুপের বিরুদ্ধে। বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে আটটায় সলিমুল্লাহ মুসলিম হলে ৩১ নাম্বার রুমে আরবি বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আহসান শাহিদ তন্ময় তার কয়েকজন বন্ধুকে নিয়ে গাঁজা সেবন শুরু করলে একই রুমে থাকা লোক প্রশাসন বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী মো. কিবরিয়া হাসান তাকে নিষেধ করে। এরপর একই রুমে থাকা দ্বিতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মাইনুল ইসলাম নওশাদ আবারও নিষেধ করলে তার উপর চড়াও হয় হন তন্ময় । এখবর পেয়ে মাইনুলের সিনিয়র বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সভাপতি সনজিদ চন্দ্র দাসের অনুসারীরা দেশীয় রামদা, রড, স্ট্যাম্প নিয়ে ৩১ নম্বর রুমের সামনে আসেন। এসময় খবর পেয়ে তন্ময়ের সিনিয়র ও বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক সাদ্দাম হোসাইনের অনুসারীরা দেশীয় অস্ত্র নিয়ে সেখানে জড়ো হন। তবে তাদের মধ্যে কোনো সংঘর্ষর ঘটনা ঘটেনি। এরপর হলের সিনিয়র নেতাদের হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়।

হল সূত্রে জানা যায়, হলের ৩১,৭৯,১৭৭ ও ১৪৯ নম্বর রুমে নিয়মিত মদ ও গাঁজার আসর বসে। আর এতে সাধারণ শিক্ষার্থীদের পড়াশুনার বিঘ্ন গঠলেও হল প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন ব্যবস্থা নেওয়া হয় না।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে অভিযুক্ত আহসান শাহিদ তন্ময় মাদক সেবনের কথা অস্বীকার করেন।

মিশাত সরকার সংবাদকে বলেন, রুমে বন্ধু-বান্ধবদের মধ্যে অভ্যন্তরীণ কিছু ঝামেলা হইছিল। আমরা সিনিয়ররা গিয়ে সেটা মিটমাট করে দিয়ে আসছি।

আতিকুর রহমান আতিক বলেন, পলিটিকাল রুমগুলোতে ইয়ারমেটদের মধ্যে বিভিন্ন বিষয়ে বাক-বিতন্ডার ঘটনা ঘটে। লাইট অফ-অন, সিগারেট খাওয়া নিয়ে মাঝে-মধ্যে কথা কাটাকাটি হয়। এটা সেরকমই একটি বিষয়। গাঁজা খাওয়ার বিষয়টি সম্পূর্ণ উদ্দেশ্যপ্রণোধিত একটি কথা। রড, রামদা, লাঠিসোটা নিয়েও কোনো মহড়া হয়নি। ঝামেলা হওয়ার পর দু’গ্রুপের সিনিয়ররা গিয়ে বিষয়টি সমাধান করে দিয়েছি।

হল প্রভোস্ট অধ্যাপক ড. মো. মুজিবর রহমান বলেন, আমি হাউজ টিউটরদের বলে দিয়েছি বিষয়টি দেখার জন্য। কেউ দোষী প্রমাণিত হলে বা ঘটনার পুনরাবৃত্তি হলে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না। রুমগুলোতে কারো ব্যক্তিগত কোনো দেশীয় অস্ত্র, রড, রামদা আছে কিনা সেটিও খতিয়ে দেখা হবে।

back to top