alt

অপরাধ ও দুর্নীতি

গুলিস্তানে তিন মার্কেটের কার পার্কিং ইজারা

টেন্ডার ছিনতাইয়ের অভিযোগ ঠিকাদারদের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক: : শনিবার, ২১ মে ২০২২

ফের ঢাকা দক্ষিন সিটি কর্পোরেশনের নগর ভবনে প্রকাশ্যে ২১ লাখ টাকার পে-অর্ডারসহ টেন্ডার ছিনতাইয়ের অভিযোগ উঠেছে এক কাউন্সিলের নেতৃত্বে। ওই কাউন্সিলের পক্ষে অস্ত্রধারীরা নগর ভবনেরই একটি কক্ষে আটকে রেখে লাঞ্চিত করেন। এক ঠিকাদারের প্রতিনিধি হিসাবে টেন্ডার জমা দিতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন এক প্রকৌশলী ও তার সহযোগী। হামলাকারীরা তাদের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়েছে তিনটি প্যাকেট ভর্তি টেন্ডার ডকুমেন্ট ও পে-অর্ডার।

এদিকে পে-অর্ডারসহ টেন্ডার ছিনতাইয়ের ঘটনায় ভূক্তভোগী ঠিকাদার শাহবাগ থানায় সাধারণ ডায়েরি করতে গেলেও পুলিশ তা রেকর্ড না করে তাকে ফিরিয়ে দেয়। কর্পোরেশনের প্রধান সম্পত্তি কর্মকর্তাকে মোবাইল ফোনে বার্তা পাঠিয়ে বিষয়টি অবহিত করেও কোন ফল পাননি ওই ঠিকাদার।

গত বৃহস্পতিবার ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন (ডিএসসিসি) ভবনে গুলিস্তানে ৩ মার্কেটে কার পাকিং এবং ইজারা সংক্রান্ত টেন্ডার ড্রপের দিন ছিলো। সেদিন একজন কাউন্সিলের লোকজন আগেই অবস্থান নেয় যাতে অন্য কেউ টেন্ডারে অংশ নিতে না পারে। ওইদিন এক পুলিশ কর্মকর্তাও মারধরের শিকার হন । যদিও বলা হচ্ছিল ওই পুলিশ কর্মকর্তা কারো হয়ে টেন্ডার জমা দিয়ে গেলে তাকে আটক করা হয়।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ঢাকা দক্ষিণ সিসি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী ফরিদ আহমদ বলেন, ‘দরপত্র জমাদানে বাধা কিংবা কাউকে আটকে রেখে মারধরের কোন ঘটনা ঘটেনি। এ ধরণের অভিযোগও আমি পাইনি। ৯টি দরপত্র বিক্রি হয়েছে ৯টিই জমা পড়েছে। এগুলো যাচাই বাছাই করে শতভাগ বিধি মোতাবেক কার্যাদেশ দেওয়া হবে। এতে নিয়মের কোন ব্যত্যয় করা হবে না।’

কাউন্সিলর ও সশস্ত্র ক্যাডারদের হামলার বিষয়ে প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এখানে একটা ঘটনা ঘটেছিল। পুলিশের নাম পরিচয় দিয়ে একজন টেন্ডার ড্রপ করতে এসেছিল। পুলিশের উপস্থিতিতে পুলিশেরই একজন সদস্য টেন্ডার ড্রপ করতে আসলে তাকে শাহবাগ থানায় সোপর্দ করা হয়। এখানে কাউন্সিলর ও তার ক্যাডার বাহিনীর মহড়া কিংবা মারধরের কোন ঘটনা ঘটেনি।’

ভূক্তভোগীদের অভিযোগ, প্রকাশ্যে সশস্ত্র ক্যাডার বাহিনী দিয়ে এই টেন্ডার ছিনতাই ও নিয়ন্ত্রণ করেছেন ৩৩ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল আওয়াল। তিনি বেনামে তিন মার্কেটের কার পার্কিংয়ের ইজারা কব্জা করতে অবৈধ প্রভাব খাটাচ্ছেন। এক্ষেত্রে সর্বোচ্চ দরদাতা মেসার্স জাইন ইন্টারন্যাশনালকে বরাদ্দ না দিতে তিনি ক্লিন ইমেজের মেয়র হিসাবে পরিচিত ব্যারিস্টার ফজলে নুর তাপসকে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা করছেন। এ কাজে আব্দুল আওয়ালের সঙ্গে মেয়রের ব্যক্তিগত কর্মকর্তার যোগসাজস রয়েছে।

জানতে চাইলে পুলিশের রমনা বিভাগের উপ পুলিশ কমিশনার সাজ্জাদুর রহমান জানান, নগর ভবনে টেন্ডার ছিনাইয়ের অভিযোগ এনে একজন ঠিকদার পুলিশের কাছে এসেছিলো। আমরা বলেছি এ বিষয়ে নগর ভবন কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে অভিযোগ দিতে হবে। ওই ব্যক্তিকে ফিরিয়ে দেওয়ার কারণ ছিলো, টেন্ডারের দিন টেন্ডার জমা দিতে গিয়ে পুলিশের একজন এআসআইকে নগরভবন থেকে আটক করে আমাদের কাছে দেওয়া হয়েছে। আমরা ওই পুলিশ কর্মকর্তারা তার ইউনিটের কাছে হস্তান্তর করেছি। ওই পুলিশ কর্মকর্তা সেখানে কেন গিয়েছেন তা নিয়ে তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আমাদের কাছে মনে হয়ে সংশ্লিষ্ট ঠিকাদার ও পুলিশ কর্মকর্তা পূর্ব পরিচিত। তাই নগর ভবন কর্তৃপক্ষের অভিযোগ চাওয়া হয়েছে। কিন্তু নগরভবন থেকে এ বিষয়ে কোন অভিযোগ করা হয়নি।

টেন্ডার নথির তথ্য , প্রতিটি মার্কেটের বেজমেন্টে ৬৬টি কার ও ২০টি করে মোটরসাইকেল পার্কিংয়ের জায়গা রয়েছে। প্রতিটি বেজমেন্টের বার্ষিক সরকারি ইজারা মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৭ লাখ ৬০ হাজার টাকা। প্রতিটি দরপত্রের দাম ২ হাজার ২০০ টাকা। দরপত্রের সঙ্গে শতকতা ৩০ ভাগ অর্থ পে-অর্ডার কিংবা ব্যাংক ড্রাফটের মাধ্যমে জমা দেওয়া নির্দেশ দেওয়া হয়। দরপত্র জমা দেও্রয়ার শেষ দিন ছিল গত বৃহস্পতিবার। সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী ঠিকাদাররা নগর ভবনে গেলেও সবাই সেখানে রাখা নির্ধারিত টেন্ডার বাক্সে দরপত্র জমা দিতে পারেননি।

শাহবাগ থানার অফিসার ইনচার্জ মওদুদ হাওলাদার বলেন, ‘দেলোয়ার হোসেন নামের এক ঠিকাদার তার দরপত্র ও পে-অর্ডার জোরপূর্বক নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ নিয়ে থানায় এসেছিলেন। আমরা তাকে কর্পোরেশন কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে আসার পরামর্শ দিয়েছি। কারণ কর্পোরেশনের ভেতর এ ধরণের ঘটনা ঘটলে কর্তৃপক্ষই পুলিশকে অবহিত করে থাকে। তাই দেলোয়ার হোসের কর্পোরেশন কর্তপক্ষের মাধ্যমে আসলেই তার অভিযোগ নেওয়া হবে।’

ছবি

পদ্মা সেতু নিয়ে গুজবের শিকার রেনুর পরিবার কেমন আছে

ছবি

মোবাইলের আইএমইআই নম্বর পরিবর্তন করে বেশি দামে বিক্রি করত তারা

হাতিয়ার মেঘনাপাড় থেকে আগ্নেয়াস্ত্র উদ্ধার

১৮ বছর পর গৃহবধূ গণধর্ষণ মামলার রায় : ২ জনের যাবজ্জীবন

ছবি

মুক্তিযোদ্ধা হোসেন হত্যা: ৬ জেএমবির ফাঁসির রায়

ছবি

অর্থ আত্মসাৎ: ওয়াসার এমডিসহ ৯ জনের বিরুদ্ধে মামলার আবেদন

র‌্যাবকে ঘুষ দিতে গিয়ে মামলার আসামি

মহাসড়কে ব্যারিকেড দিয়ে সোয়াবিন ভর্তি ট্রাক ছিনতাই

ছবি

১৫ পর কৃষক হত্যার রায়, ৮ জনের যাবজ্জীবন

ময়মনসিংহের ছোট ভাইয়ের দায়ের কোপে বড় ভাই নিহত

ছবি

‘এমন আচরণ রাষ্ট্রের জন্য কলঙ্ক’

সিরাজগঞ্জে হেরোইন বহনের দায়ে দু’জনের যাবজ্জীবন

ছবি

সাতক্ষীরায় আ. লীগ নেতা মোশাররফ হোসেন গুলিবিদ্ঘধ, হাসপাতালে ভর্তি

পাবনা জেনারেল হাসপাতালে বর্জ্য ব্যবস্থাপনা সামগ্রী ক্রয়ে দুর্নীতি!

ছবি

নন্দীগ্রামের জীবন কুমারের আত্মহত্যায় প্ররোচনাকারীদের শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত পলাতক আসামি গ্রেপ্তার

ছবি

হানিফের হেলপার নিহতের ঘটনায় শতাব্দীর বাসচালক গ্রেপ্তার

নোয়াখালীতে অটোরিকশা চোর চক্রের ৯সদস্য গ্রেপ্তার

পুলিশ পরিচয়ে বিদেশ ফেরত যাত্রীর গাড়িতে ডাকাতি সর্বস্ব লুট

ছবি

ড. কামালের কর ফাঁকি নিয়ে রিটের আদেশ ২১ জুন

ছবি

উত্তরা থেকে ‘ধর্ষক’ গ্রেপ্তার

সাইবার অপরাধ বাড়ছে, ৬ মাসে ৪ হাজার অভিযোগ

যুক্তরাস্ট্টে দোকানের সামনেই গুলি করে নোয়াখালীর মাহফুজ হত্যা

ছবি

ঋন নিয়ে আত্মসাত: পিকে সহ ২৩ জনের নামে চার্জশিট দিচ্ছে দুদক

ছবি

চিকিৎসক বুলবুল হত্যা: প্রধান আসামি রিপন গ্রেপ্তার

ছবি

দুই মামলায় স্থায়ী জামিন পেলেন খালেদা জিয়া

মহেশখালীতে হিন্দু পাড়ায় পরাজিত মেম্বার প্রার্থীর হামলায় আহত - ৭

ছবি

জাজিরায় ভোটে পরাজিত প্রার্থীর হামলা; পুলিশের গুলিতে শিশু সহ আহত ৩

ছবি

দুদকের মামলায় ময়মনসিংহের সাবেক ওসি কারাগারে

বগুড়ার নন্দীগ্রামে স্ত্রী ও সম্বন্ধীর প্রতারণার শিকার হয়ে যুবকের আত্মহত্যা

ছবি

ভবন হস্তান্তর : তুরিন আফরোজকে শোকজ

ছবি

হাইকোর্ট বলছে, অর্থ পাচারের মাস্টারমাইন্ড খন্দকার মোহতেশাম

লালমনিরহাটে বিকাশ এজেন্ট হত্যাকান্ড : প্রধান আসামী গাজীপুর থেকে গ্রেফতার

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে হেডমাঝি হত্যার মূলহোতাসহ ২ জন গ্রেপ্তার

লক্ষ্মীপুর আদালত ইভ্যালির রাসেলসহ চারজনের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছে

ছবি

ড. কামালের রিট হাইকোর্টের কার্যতালিকা থেকে বাদ

tab

অপরাধ ও দুর্নীতি

গুলিস্তানে তিন মার্কেটের কার পার্কিং ইজারা

টেন্ডার ছিনতাইয়ের অভিযোগ ঠিকাদারদের

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক:

শনিবার, ২১ মে ২০২২

ফের ঢাকা দক্ষিন সিটি কর্পোরেশনের নগর ভবনে প্রকাশ্যে ২১ লাখ টাকার পে-অর্ডারসহ টেন্ডার ছিনতাইয়ের অভিযোগ উঠেছে এক কাউন্সিলের নেতৃত্বে। ওই কাউন্সিলের পক্ষে অস্ত্রধারীরা নগর ভবনেরই একটি কক্ষে আটকে রেখে লাঞ্চিত করেন। এক ঠিকাদারের প্রতিনিধি হিসাবে টেন্ডার জমা দিতে গিয়ে হামলার শিকার হয়েছেন এক প্রকৌশলী ও তার সহযোগী। হামলাকারীরা তাদের কাছ থেকে ছিনিয়ে নিয়েছে তিনটি প্যাকেট ভর্তি টেন্ডার ডকুমেন্ট ও পে-অর্ডার।

এদিকে পে-অর্ডারসহ টেন্ডার ছিনতাইয়ের ঘটনায় ভূক্তভোগী ঠিকাদার শাহবাগ থানায় সাধারণ ডায়েরি করতে গেলেও পুলিশ তা রেকর্ড না করে তাকে ফিরিয়ে দেয়। কর্পোরেশনের প্রধান সম্পত্তি কর্মকর্তাকে মোবাইল ফোনে বার্তা পাঠিয়ে বিষয়টি অবহিত করেও কোন ফল পাননি ওই ঠিকাদার।

গত বৃহস্পতিবার ঢাকা দক্ষিণ সিটি কর্পোরেশন (ডিএসসিসি) ভবনে গুলিস্তানে ৩ মার্কেটে কার পাকিং এবং ইজারা সংক্রান্ত টেন্ডার ড্রপের দিন ছিলো। সেদিন একজন কাউন্সিলের লোকজন আগেই অবস্থান নেয় যাতে অন্য কেউ টেন্ডারে অংশ নিতে না পারে। ওইদিন এক পুলিশ কর্মকর্তাও মারধরের শিকার হন । যদিও বলা হচ্ছিল ওই পুলিশ কর্মকর্তা কারো হয়ে টেন্ডার জমা দিয়ে গেলে তাকে আটক করা হয়।

এ ব্যাপারে জানতে চাইলে ঢাকা দক্ষিণ সিসি কর্পোরেশনের প্রধান নির্বাহী ফরিদ আহমদ বলেন, ‘দরপত্র জমাদানে বাধা কিংবা কাউকে আটকে রেখে মারধরের কোন ঘটনা ঘটেনি। এ ধরণের অভিযোগও আমি পাইনি। ৯টি দরপত্র বিক্রি হয়েছে ৯টিই জমা পড়েছে। এগুলো যাচাই বাছাই করে শতভাগ বিধি মোতাবেক কার্যাদেশ দেওয়া হবে। এতে নিয়মের কোন ব্যত্যয় করা হবে না।’

কাউন্সিলর ও সশস্ত্র ক্যাডারদের হামলার বিষয়ে প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘এখানে একটা ঘটনা ঘটেছিল। পুলিশের নাম পরিচয় দিয়ে একজন টেন্ডার ড্রপ করতে এসেছিল। পুলিশের উপস্থিতিতে পুলিশেরই একজন সদস্য টেন্ডার ড্রপ করতে আসলে তাকে শাহবাগ থানায় সোপর্দ করা হয়। এখানে কাউন্সিলর ও তার ক্যাডার বাহিনীর মহড়া কিংবা মারধরের কোন ঘটনা ঘটেনি।’

ভূক্তভোগীদের অভিযোগ, প্রকাশ্যে সশস্ত্র ক্যাডার বাহিনী দিয়ে এই টেন্ডার ছিনতাই ও নিয়ন্ত্রণ করেছেন ৩৩ নম্বর ওয়ার্ড কাউন্সিলর আব্দুল আওয়াল। তিনি বেনামে তিন মার্কেটের কার পার্কিংয়ের ইজারা কব্জা করতে অবৈধ প্রভাব খাটাচ্ছেন। এক্ষেত্রে সর্বোচ্চ দরদাতা মেসার্স জাইন ইন্টারন্যাশনালকে বরাদ্দ না দিতে তিনি ক্লিন ইমেজের মেয়র হিসাবে পরিচিত ব্যারিস্টার ফজলে নুর তাপসকে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা করছেন। এ কাজে আব্দুল আওয়ালের সঙ্গে মেয়রের ব্যক্তিগত কর্মকর্তার যোগসাজস রয়েছে।

জানতে চাইলে পুলিশের রমনা বিভাগের উপ পুলিশ কমিশনার সাজ্জাদুর রহমান জানান, নগর ভবনে টেন্ডার ছিনাইয়ের অভিযোগ এনে একজন ঠিকদার পুলিশের কাছে এসেছিলো। আমরা বলেছি এ বিষয়ে নগর ভবন কর্তৃপক্ষের পক্ষ থেকে অভিযোগ দিতে হবে। ওই ব্যক্তিকে ফিরিয়ে দেওয়ার কারণ ছিলো, টেন্ডারের দিন টেন্ডার জমা দিতে গিয়ে পুলিশের একজন এআসআইকে নগরভবন থেকে আটক করে আমাদের কাছে দেওয়া হয়েছে। আমরা ওই পুলিশ কর্মকর্তারা তার ইউনিটের কাছে হস্তান্তর করেছি। ওই পুলিশ কর্মকর্তা সেখানে কেন গিয়েছেন তা নিয়ে তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আমাদের কাছে মনে হয়ে সংশ্লিষ্ট ঠিকাদার ও পুলিশ কর্মকর্তা পূর্ব পরিচিত। তাই নগর ভবন কর্তৃপক্ষের অভিযোগ চাওয়া হয়েছে। কিন্তু নগরভবন থেকে এ বিষয়ে কোন অভিযোগ করা হয়নি।

টেন্ডার নথির তথ্য , প্রতিটি মার্কেটের বেজমেন্টে ৬৬টি কার ও ২০টি করে মোটরসাইকেল পার্কিংয়ের জায়গা রয়েছে। প্রতিটি বেজমেন্টের বার্ষিক সরকারি ইজারা মূল্য নির্ধারণ করা হয়েছে ৭ লাখ ৬০ হাজার টাকা। প্রতিটি দরপত্রের দাম ২ হাজার ২০০ টাকা। দরপত্রের সঙ্গে শতকতা ৩০ ভাগ অর্থ পে-অর্ডার কিংবা ব্যাংক ড্রাফটের মাধ্যমে জমা দেওয়া নির্দেশ দেওয়া হয়। দরপত্র জমা দেও্রয়ার শেষ দিন ছিল গত বৃহস্পতিবার। সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী ঠিকাদাররা নগর ভবনে গেলেও সবাই সেখানে রাখা নির্ধারিত টেন্ডার বাক্সে দরপত্র জমা দিতে পারেননি।

শাহবাগ থানার অফিসার ইনচার্জ মওদুদ হাওলাদার বলেন, ‘দেলোয়ার হোসেন নামের এক ঠিকাদার তার দরপত্র ও পে-অর্ডার জোরপূর্বক নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ নিয়ে থানায় এসেছিলেন। আমরা তাকে কর্পোরেশন কর্তৃপক্ষের মাধ্যমে আসার পরামর্শ দিয়েছি। কারণ কর্পোরেশনের ভেতর এ ধরণের ঘটনা ঘটলে কর্তৃপক্ষই পুলিশকে অবহিত করে থাকে। তাই দেলোয়ার হোসের কর্পোরেশন কর্তপক্ষের মাধ্যমে আসলেই তার অভিযোগ নেওয়া হবে।’

back to top