alt

রাজনীতি

‘জিনিসপত্রের দাম বাড়ায় এখনো কেউ মারা যায়নি’

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক : বুধবার, ১০ আগস্ট ২০২২

‘বাংলাদেশকে গোলামি থেকে মুক্ত করে উন্নয়নশীল দেশে পরিণত করেছে আওয়ামী লীগ সরকার। কিছু মানুষ আছে, আমাদের পছন্দ করে না। তারা বলছে, জিনিসপত্রের দাম বেড়েছে, মানুষ মরে যাবে। তবে আমরা অস্বীকার করব না। জিনিসপত্রের দাম কিছুটা বেড়েছে এটা সত্যি। কিন্তু জিনিসপত্রের দাম বাড়ায় এখনো কেউ মারা যায়নি, আশা করি মরবেও না।’ কথাগুলো বলেছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান।

বুধবার (১০ আগস্ট) সকালে সুনামগঞ্জের শান্তিগঞ্জ উপজেলার ডুংরিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর মডেল গ্রাম প্রতিষ্ঠা শীর্ষক পাইলট প্রকল্পের আওতায় ৮০ জন উপকারভোগীর মাঝে ঋণের চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

জনশুমারির সমালোচনা নিয়ে বিএনপি নেতাদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, কিছু দিন আগে জনশুমারির কাজ নিয়েও একদল মানুষ বলে বেড়াচ্ছে, জনশুমারি হয়নি। তারা বাড়িতে বসে চা-বিস্কুট খায় আর অযথা দোষ খোঁজে। এটা তাদের অভ্যাস।

মন্ত্রী আরও বলেন, বর্তমান সময়ে বিদ্যুৎ নিয়ে মানুষের অনেক কষ্ট হচ্ছে। প্রতিদিন ২-৩ ঘণ্টা বিদ্যুৎ থাকে না। বিশ্বজুড়ে যুদ্ধের কারণে তেল-গ্যাস বন্ধ হয়ে গেছে। আমেরিকা ও রাশিয়ার কারণে এই পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে।

তিনি বলেন, একটি কুচক্রী মহল তিন মাস আগ থেকে বলছে, দেশ শ্রীলঙ্কা হয়ে যাবে। আমরা বলেছিলাম হবে না। আর মাত্র একটি মাস আমরা আগের জায়গায় ফিরে যাব।

উপস্থিত জনগণের উদ্দেশ্যে মন্ত্রী বলেন, ছেলে-মেয়েদের টেকনিক্যাল কাজ শেখানোর জন্য আমার নিজের দেওয়া জমিতে টেকনিক্যাল প্রতিষ্ঠান, মেডিকেল টেকনিক্যাল কম্পাউন্ডার প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলা হবে। এখান থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে ভালো চাকরি করার সুযোগ হবে।

শান্তিগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান নুর হোসেনের সভাপতিত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন- এলজিইডি নির্বাহী প্রকৌশলী মাহবুব আলম, উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান দুলন রানী তালুকদার, এসিল্যান্ড সকিনা আক্তার, ওসি খালেদ হোসেন চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি হাজী তহুর আলী, ডুংরিয়া হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মদনমোহন রায়সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তি।

ছবি

চূড়ান্ত আঘাতের জন্য জনগণ প্রস্তুত : রিজভী

ছবি

সুন্দরীদের বাছাই করে কুপ্রস্তাব, ছাত্রলীগ নেত্রীর ভয়াবহ অভিযোগ

ছবি

লাশ ফেলে আন্দোলন জমাতে চায় বিএনপি: কাদের

ছবি

বিএনপির ৩৫ লাখ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে মামলার পর গণতন্ত্র থাকে কি করে, প্রশ্ন ফখরুলের

বিএনপির সন্ত্রাসী কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে মাঠে থাকবে আওয়ামীলীগ: শাজাহান খান

ছবি

জাতিসংঘ কীভাবে এত বড় ভুল করে, প্রশ্ন জয়ের

ছবি

রাজপথ কোন দলের পৈতৃক সম্পত্তি নয়: কাদের

ছবি

বিপ্লবী কমিউনিস্ট লীগ ফরিদপুর জেলা কমিটি গঠন

ছবি

আ.লীগের ২০ নেতাকর্মীর বিরুদ্ধে বিএনপির মামলার

ছবি

খালেদা জিয়ার ১১ মামলায় শুনানি ২৩ জানুয়ারি

৮৭১১ কোটি টাকার প্রকল্পের খসড়া অনুমোদন ইসির

ছবি

বিরোধী দল যেন ঘরের বউ দুদু

ইভিএম নিয়ে রাজনৈতিক দলগুলোর মতামত আবার পর্যালোচনা করবে ইসি

ছবি

নারায়ণগঞ্জে ছাত্রদল-যুবদল নেতাকর্মীর বাড়িঘরে হামলা-লুটপাট

ছবি

৬ দিনের মাথায় ১৫ নেতার পদত্যাগের ঘোষণা

ছবি

খালেদা জিয়ার মুক্তির মেয়াদ আরও ৬ মাস বাড়ছে

কিশোরগঞ্জের স্বেচ্ছাসেবকলীগ সভাপতির অব্যাহতি

ছবি

জাপানের রাষ্ট্রদূতের সঙ্গে বিএনপি নেতাদের বৈঠক

ছবি

বনানীতে বিএনপির কর্মসূচিতে হামলা, তাবিথ হাসপাতালে

ছবি

এবার জিয়াউল হক মৃধাকে জাপা থেকে অব্যাহতি

ছবি

বরিশালে বিএনপির কমিটি বাতিলের দাবি, কার্যালায়ে তালা

ছবি

কূটনৈতিকভাবে রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে ব্যর্থ সরকার: জি এম কাদের

ছবি

আওয়ামী লীগের বিরুদ্ধে জামায়াত বিএনপি চক্র নতুন ষড়যন্ত্রে মেতে উঠেছে

ছবি

ঘোষণার চার দিন পর ছাত্রদলের কেন্দ্রীয় কমিটির ৩২ পদ স্থগিত

ছবি

স্কপের সমাবেশে শ্রমিকদের মজুরি ন্যূনতম ২০ হাজার টাকা দাবি

ছবি

মির্জা ফখরুলের বক্তব্য রাষ্ট্রদ্রোহিতার শামিল: কাদের

ছবি

লালমনিরহাটে রাঙ্গার কুশপুত্তলিকা দাহ

ছবি

জাতীয় পার্টি কোনো জোটে নেই: জি এম কাদের

ছবি

ঢাবি ছাত্র ইউনিয়নের নতুন কমিটি ঘোষণা

ছবি

বিএনপির প্রতিষ্ঠাকালীন নেতা আবুল হাসনাত মারা গেছেন

ছবি

কর্মসূচিতে হামলার প্রতিবাদে রোববার সারাদেশে সমাবেশ করবে বিএনপি

ছবি

বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হচ্ছেন ১৯ জন

ছবি

ছাত্রদলের কমিটিতে ৩০২ জন : ৩২ জনের পদ স্থগিত

ছবি

ইসির ‘রোডম্যাপ’ : আস্থা নেই বিরোধী দলগুলোর

ছবি

জাতীয় পার্টিতে ভাঙনের সুর

জেলা পরিষদ নির্বাচন, সিলেটে ৭৩ জন মনোনয়নপত্র জমা দিয়েছেন

tab

রাজনীতি

‘জিনিসপত্রের দাম বাড়ায় এখনো কেউ মারা যায়নি’

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক

বুধবার, ১০ আগস্ট ২০২২

‘বাংলাদেশকে গোলামি থেকে মুক্ত করে উন্নয়নশীল দেশে পরিণত করেছে আওয়ামী লীগ সরকার। কিছু মানুষ আছে, আমাদের পছন্দ করে না। তারা বলছে, জিনিসপত্রের দাম বেড়েছে, মানুষ মরে যাবে। তবে আমরা অস্বীকার করব না। জিনিসপত্রের দাম কিছুটা বেড়েছে এটা সত্যি। কিন্তু জিনিসপত্রের দাম বাড়ায় এখনো কেউ মারা যায়নি, আশা করি মরবেও না।’ কথাগুলো বলেছেন পরিকল্পনামন্ত্রী এম এ মান্নান।

বুধবার (১০ আগস্ট) সকালে সুনামগঞ্জের শান্তিগঞ্জ উপজেলার ডুংরিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধুর মডেল গ্রাম প্রতিষ্ঠা শীর্ষক পাইলট প্রকল্পের আওতায় ৮০ জন উপকারভোগীর মাঝে ঋণের চেক বিতরণ অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি।

জনশুমারির সমালোচনা নিয়ে বিএনপি নেতাদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, কিছু দিন আগে জনশুমারির কাজ নিয়েও একদল মানুষ বলে বেড়াচ্ছে, জনশুমারি হয়নি। তারা বাড়িতে বসে চা-বিস্কুট খায় আর অযথা দোষ খোঁজে। এটা তাদের অভ্যাস।

মন্ত্রী আরও বলেন, বর্তমান সময়ে বিদ্যুৎ নিয়ে মানুষের অনেক কষ্ট হচ্ছে। প্রতিদিন ২-৩ ঘণ্টা বিদ্যুৎ থাকে না। বিশ্বজুড়ে যুদ্ধের কারণে তেল-গ্যাস বন্ধ হয়ে গেছে। আমেরিকা ও রাশিয়ার কারণে এই পরিস্থিতি তৈরি হয়েছে।

তিনি বলেন, একটি কুচক্রী মহল তিন মাস আগ থেকে বলছে, দেশ শ্রীলঙ্কা হয়ে যাবে। আমরা বলেছিলাম হবে না। আর মাত্র একটি মাস আমরা আগের জায়গায় ফিরে যাব।

উপস্থিত জনগণের উদ্দেশ্যে মন্ত্রী বলেন, ছেলে-মেয়েদের টেকনিক্যাল কাজ শেখানোর জন্য আমার নিজের দেওয়া জমিতে টেকনিক্যাল প্রতিষ্ঠান, মেডিকেল টেকনিক্যাল কম্পাউন্ডার প্রতিষ্ঠান গড়ে তোলা হবে। এখান থেকে প্রশিক্ষণ নিয়ে ভালো চাকরি করার সুযোগ হবে।

শান্তিগঞ্জ উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যান নুর হোসেনের সভাপতিত্বে এ সময় উপস্থিত ছিলেন- এলজিইডি নির্বাহী প্রকৌশলী মাহবুব আলম, উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান দুলন রানী তালুকদার, এসিল্যান্ড সকিনা আক্তার, ওসি খালেদ হোসেন চৌধুরী, উপজেলা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি হাজী তহুর আলী, ডুংরিয়া হাইস্কুল অ্যান্ড কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মদনমোহন রায়সহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তি।

back to top