alt

রাজনীতি

পুলিশ মাইকিং করে ভোট দিতে ডাকছে, জীবনেও শুনিনি: মির্জা আব্বাস

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক: : বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

বিএনপির ছেড়ে দেওয়া ছয় আসনে অনুষ্ঠিত উপ-নির্বাচনে ভোটারদের অনাগ্রহের বিষয়টি তুলে ধরলেন বিএনপি নেতা মির্জা আব্বাস। আজ বুধবার যে সময় দেশের তিন বিভাগের ছয় আসনে ভোট চলছিল, সে সময় ঢাকায় বিএনপির ‘নীরব পদযাত্রা’ কর্মসূচিতে অংশ নেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস্য।

এই কর্মসূচিতে তিনি বলেন, “ব্রাহ্মণবাড়িয়াসহ বিভিন্ন জায়গায় আজ উপ-নির্বাচন হচ্ছে। সকাল থেকে ভোট কেন্দ্রে ভোটার নাই। মিডিয়াকে প্রচার হচ্ছে- ব্রাহ্মণবাড়িয়ার একটি কেন্দ্রে তিন/চারটি কুকুর ঘুমিয়ে আছে। “আল্লাহ বাঁচাইছে যে, কুত্তার ভোট দেওয়ার অধিকার নাই। যদি থাকত তাহলে কী সর্বনাশটা হয়ে যেত এখন!

“এখন একটা খবর শুনলাম, একটা কেন্দ্রে কেনো ভোটার যাচ্ছে না। পুলিশ নাকি মাইকিং করতেছে, ভোটার ডাকতেছে। আমি আমার জীবনে শুনি নাই ভাই এ রকম কথা… অর্থাৎ পুলিশ মাইকে ডাকছে, ভোট দিতে আসেন।”

নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি মানতে সরকারকে চাপে ফেলার লক্ষ্যে সংসদ থেকে বিএনপি পদত্যাগ করায় সংসদ নির্বাচনের এক বছর আগে চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ ও ৩, বগুড়া-৪ ও ৬, ঠাকুরগাঁও-৩ এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনে উপ-নির্বাচন করতে হচ্ছে। সবগুলো আসনেই সকাল থেকে ভোটার উপস্থিতি কম দেখা গেছে।

নির্বাচনকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা ফিরিয়ে আনাসহ ১০ দাবিতে বিএনপির চার দিন ‘নীরব পদযাত্রা’ কর্মসূচি পালন করছে ঢাকায়। শেষ দিনের কর্মসূচিতে বুধবার দুপুরের পর কমলাপুরে সিপাহী বীরশ্রেষ্ঠ মোস্তফা কামাল স্টেডিয়াম থেকে মালিবাগ রেলগেইট পর্যন্ত পদযাত্রা করে ঢাকা মহানগর দক্ষিণের নেতা-কর্মীরা।

কর্মসূচিতে খিলগাঁও-মুগদা-শাহজাহানপুর-বাসাবো এলাকার নেতা-কর্মী ছাড়াও মহিলা দল, যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল, ছাত্রদলের কয়েক হাজার নেতা-কর্মী অংশ নেন।

কর্মদিবসে এই কর্মসূচির কারণে দীর্ঘ যানজট তৈরি হয়। পদযাত্রা উপলক্ষে কমলাপুর স্টেডিয়াম-খিলগাঁও সড়কে ব্যাপক পুলিশ মোতায়েন করা হয়। পদযাত্রা শুরুর আগে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে মির্জা আব্বাস ছাড়াও ঢাকা মহানগর বিএনপির (উত্তর) আহ্বায়ক আবদুস সালাম ও সদস্য সচিব র্রফিকুল আলম মজনু বক্তব্য রাখেন।

বিএনপির এই পদযাত্রা কর্মসূচির কারণে আওয়ামী লীগের ভিত ‘নড়বড়ে হয়ে গেছে’ বলে মন্তব্য করেন মির্জা আব্বাস। তিনি বলেন, “আমরা যদি চিৎকার করি, আওয়ামী লীগ ভয় পায়, আমরা যদি নীরব থাকি, আওয়ামী লীগ ভয় পায়। আমরা নীরব পদযাত্রা করার কথা বলেছি, কিন্তু বিএনপির পদযাত্রায় রাস্তা প্রকম্পিত হচ্ছে, তাতে তারা ভয় পেয়ে গেছে। একেকজন চাটুকার একেক রকম কথা বলছে। কেউ বলছে বিএনপির মরণ যাত্রা, কেউ বলছে এটা, কেউ বলছে সেটা।

“আওয়ামী লীগ কিন্তু পায়ের আওয়াজ পেয়ে গেছে। ওই যে কারা আসছে? এরা কারা? এরা গণতন্ত্র চায়, এরা ভোটে অধিকার চায়, এ দেশের গণমানুষের অধিকার আদায় করতে চায়। আমি নেতা-কর্মীদের মধ্যে যে আত্মবিশ্বাস দেখছি, আমি বিশ্বাস করি, এই সরকারের পতন ইনশাল্লাহ অবশ্যই আমরা ঘটাব।”

১৯ দিনের ব্যবধানে দুই বার বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর সমালোচনা করে মির্জা আব্বাস বলেন, “বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী বলছেন, মাসে মাসে বিদ্যুতের দাম সমন্বয় করা হবে। ভাবটা এরকম যে, এটা কারও একটা রাজত্ব, রাজার হুকুম মতো দেশ চলবে।

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা হাবিবুর রহমান হাবিব, খায়রুল কবির খোকন, আবদুস সালাম আজাদ, মীর সরাফত আলী সপু, রফিকুল ইসলাম, সাইফুল আলম নিরব, রিয়াজ উদ্দিন নসু, মীর নেওয়াজ আলী, ঢাকা মহানগর উত্তরের কাজী আবুল বাশার, ইশরাক হোসেন, নবী উল্লাহ নবী, ইউনুস মৃধা, লিটন মাহমুদ, হাবিবুর রশীদ হাবিব, তানভীর আহমেদ রবিন, মহিলা দলের আফরোজা আব্বাস, রুমা আখতার, নার্গিস আখতার, যুবদলের মামুন হাসান, মোনায়েম মুন্না, স্বেচ্ছাসেবক দলের এসএস জিলানি, রাজিব আহসান, শ্রমিক দলের মোস্তাফিজুল করীম মজুমদার, সুমন ভুঁইয়া, তাঁতী দলের আবুল কালাম আজাদ, ছাত্রদলের কাজী রওনকুল ইসলাম শ্রাবণ, সাইফ মাহমুদ জুয়েলও পদযাত্রায় অংশ নেন।

ছবি

আদম তমিজী হক আটক

ছবি

ঝালকাঠি শাহজাহান ওমর ও ফরিদপুর এ কে আজাদের প্রার্থিতা বাতিল চেয়ে আপিল

ইসিতে মোট আপিল ৫৬১টি, সিদ্ধান্ত ১৫ তারিখের মধ্যে

বিএনপি মানববন্ধনের নামে ‘নাশকতার পরিকল্পনা’ করছে : কাদের

ছবি

পঙ্কজের প্রার্থিতা বাতিল চান নৌকার প্রার্থী শাম্মী

ছবি

মানববন্ধনের নামে নাশকতার পরিকল্পনা করছে বিএনপি: কাদের

ছবি

শাহজাহান ওমরের প্রার্থিতা বাতিল করতে সিইসিকে চিঠি

প্রেসক্লাবের সামনে বিএনপি মানববন্ধন কাল

জাপার চুন্নুর প্রার্থিতা ঠেকাতে আ’লীগের নাসিরুলের আবেদন

আপিলের প্রার্থীরা শতভাগ ন্যায়বিচার পাবেন : ইসি

ছবি

এমন হলে বিএনপি জামায়াতের ‘কবজায়’ চলে যাবে, ধারণা শাহজাহান ওমরের

ছবি

মানবাধিকার দিবসে দেশে পরিস্থিতি ঘোলাটে করার চক্রান্ত হচ্ছে : তথ্যমন্ত্রী

ছবি

জাপার চুন্নুর প্রার্থিতা বাতিল চেয়ে নৌকার প্রার্থীর আবেদন

ছবি

সংবিধান মেনেই নির্বাচন করছি, নিষেধাজ্ঞা আসবে কেন: প্রশ্ন কাদেরের

ছবি

গ্রহণযোগ্য নির্বাচন, স্বতন্ত্র প্রার্থীদের গুরুত্ব বাড়ছে

নাশকতার মামলা : টুকু-জুয়েলসহ বিএনপির ২৯ নেতাকর্মীর কারাদন্ড

প্রার্থিতা ফিরে পেতে ৩৩১, বাতিল করতে ৭ আবেদন

পিতা-পুত্রের দ্বন্দ্ব মিটিয়ে এখন লড়বেন বাবা-মেয়ে

নির্বাচন আচরণবিধি লঙ্ঘনের ব্যাখ্যা দিলেন মায়া চৌধুরী

হেলিকপ্টারকান্ডে বিএনএম প্রার্থীকে জরিমানা

ছবি

মির্জা ফখরুলকে জামিন দিতে রুল

ছবি

জাপার সঙ্গে আসন ভাগাভাগি নয়, রাজনৈতিক আলোচনা হয়েছে : সেতুমন্ত্রী

ছবি

আ.লীগের সঙ্গে আসন বণ্টন প্রয়োজন মনে করছে না জাতীয় পার্টি : জাপা মহাসচিব

ছবি

বৃষ্টিতে ভিজে নেতাকর্মীদের নিয়ে রিজভীর মিছিল

সরকার প্রহসনের নির্বাচন করার আত্মঘাতী খেলায় মেতে উঠেছে : রিজভী

জাপার সঙ্গে ভাগাভাগি, বিরোধী দল কারা? কাদের বললেন ‘দাঁড়িয়ে যাবে’

তওবা, আস্তাগফিরুল্লা, বিএনপিতে ফিরে যাওয়ার প্রশ্নে শাহজাহান ওমর

রাজনীতি করতে নয়, উন্নয়ন করতে প্রার্থী হয়েছি

ছবি

দুদিনের সফরে নিজ নির্বাচনী এলাকায় গোপালগঞ্জ যাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

ছবি

বিএনপি-জামায়াত সারাদেশে বিশৃঙ্খলার ষড়যন্ত্র করছে : কাদের

ছবি

সাদিক আব্দুল্লাহর মনোনয়নপত্র বাতিল চেয়ে আপিল:জাহিদ ফারুক

ছবি

শাহজাহান ওমর বিএনপিপন্থি আইনজীবীদের তোপের মুখে

ছবি

গ্রেপ্তারি পরোয়ানা নিয়ে রাজশাহীতে রিজভীর ঝটিকা মিছিল

ছবি

আ.লীগ আমার পুরোনো দল, মাঝে অন্য জায়গায় ছিলাম: শাহজাহান ওমর

ছবি

আপিল আবেদন করতে ইসিতে হিরো আলম

ছবি

স্বতন্ত্র প্রার্থীর পক্ষে প্রচারণা, তৃণমূল আ’লীগে নতুন বার্তা

tab

রাজনীতি

পুলিশ মাইকিং করে ভোট দিতে ডাকছে, জীবনেও শুনিনি: মির্জা আব্বাস

নিজস্ব বার্তা পরিবেশক:

বুধবার, ০১ ফেব্রুয়ারী ২০২৩

বিএনপির ছেড়ে দেওয়া ছয় আসনে অনুষ্ঠিত উপ-নির্বাচনে ভোটারদের অনাগ্রহের বিষয়টি তুলে ধরলেন বিএনপি নেতা মির্জা আব্বাস। আজ বুধবার যে সময় দেশের তিন বিভাগের ছয় আসনে ভোট চলছিল, সে সময় ঢাকায় বিএনপির ‘নীরব পদযাত্রা’ কর্মসূচিতে অংশ নেন বিএনপির স্থায়ী কমিটির এই সদস্য।

এই কর্মসূচিতে তিনি বলেন, “ব্রাহ্মণবাড়িয়াসহ বিভিন্ন জায়গায় আজ উপ-নির্বাচন হচ্ছে। সকাল থেকে ভোট কেন্দ্রে ভোটার নাই। মিডিয়াকে প্রচার হচ্ছে- ব্রাহ্মণবাড়িয়ার একটি কেন্দ্রে তিন/চারটি কুকুর ঘুমিয়ে আছে। “আল্লাহ বাঁচাইছে যে, কুত্তার ভোট দেওয়ার অধিকার নাই। যদি থাকত তাহলে কী সর্বনাশটা হয়ে যেত এখন!

“এখন একটা খবর শুনলাম, একটা কেন্দ্রে কেনো ভোটার যাচ্ছে না। পুলিশ নাকি মাইকিং করতেছে, ভোটার ডাকতেছে। আমি আমার জীবনে শুনি নাই ভাই এ রকম কথা… অর্থাৎ পুলিশ মাইকে ডাকছে, ভোট দিতে আসেন।”

নির্দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচনের দাবি মানতে সরকারকে চাপে ফেলার লক্ষ্যে সংসদ থেকে বিএনপি পদত্যাগ করায় সংসদ নির্বাচনের এক বছর আগে চাঁপাইনবাবগঞ্জ-২ ও ৩, বগুড়া-৪ ও ৬, ঠাকুরগাঁও-৩ এবং ব্রাহ্মণবাড়িয়া-২ আসনে উপ-নির্বাচন করতে হচ্ছে। সবগুলো আসনেই সকাল থেকে ভোটার উপস্থিতি কম দেখা গেছে।

নির্বাচনকালীন তত্ত্বাবধায়ক সরকার ব্যবস্থা ফিরিয়ে আনাসহ ১০ দাবিতে বিএনপির চার দিন ‘নীরব পদযাত্রা’ কর্মসূচি পালন করছে ঢাকায়। শেষ দিনের কর্মসূচিতে বুধবার দুপুরের পর কমলাপুরে সিপাহী বীরশ্রেষ্ঠ মোস্তফা কামাল স্টেডিয়াম থেকে মালিবাগ রেলগেইট পর্যন্ত পদযাত্রা করে ঢাকা মহানগর দক্ষিণের নেতা-কর্মীরা।

কর্মসূচিতে খিলগাঁও-মুগদা-শাহজাহানপুর-বাসাবো এলাকার নেতা-কর্মী ছাড়াও মহিলা দল, যুবদল, স্বেচ্ছাসেবক দল, ছাত্রদলের কয়েক হাজার নেতা-কর্মী অংশ নেন।

কর্মদিবসে এই কর্মসূচির কারণে দীর্ঘ যানজট তৈরি হয়। পদযাত্রা উপলক্ষে কমলাপুর স্টেডিয়াম-খিলগাঁও সড়কে ব্যাপক পুলিশ মোতায়েন করা হয়। পদযাত্রা শুরুর আগে সংক্ষিপ্ত সমাবেশে মির্জা আব্বাস ছাড়াও ঢাকা মহানগর বিএনপির (উত্তর) আহ্বায়ক আবদুস সালাম ও সদস্য সচিব র্রফিকুল আলম মজনু বক্তব্য রাখেন।

বিএনপির এই পদযাত্রা কর্মসূচির কারণে আওয়ামী লীগের ভিত ‘নড়বড়ে হয়ে গেছে’ বলে মন্তব্য করেন মির্জা আব্বাস। তিনি বলেন, “আমরা যদি চিৎকার করি, আওয়ামী লীগ ভয় পায়, আমরা যদি নীরব থাকি, আওয়ামী লীগ ভয় পায়। আমরা নীরব পদযাত্রা করার কথা বলেছি, কিন্তু বিএনপির পদযাত্রায় রাস্তা প্রকম্পিত হচ্ছে, তাতে তারা ভয় পেয়ে গেছে। একেকজন চাটুকার একেক রকম কথা বলছে। কেউ বলছে বিএনপির মরণ যাত্রা, কেউ বলছে এটা, কেউ বলছে সেটা।

“আওয়ামী লীগ কিন্তু পায়ের আওয়াজ পেয়ে গেছে। ওই যে কারা আসছে? এরা কারা? এরা গণতন্ত্র চায়, এরা ভোটে অধিকার চায়, এ দেশের গণমানুষের অধিকার আদায় করতে চায়। আমি নেতা-কর্মীদের মধ্যে যে আত্মবিশ্বাস দেখছি, আমি বিশ্বাস করি, এই সরকারের পতন ইনশাল্লাহ অবশ্যই আমরা ঘটাব।”

১৯ দিনের ব্যবধানে দুই বার বিদ্যুতের দাম বাড়ানোর সমালোচনা করে মির্জা আব্বাস বলেন, “বিদ্যুৎ প্রতিমন্ত্রী বলছেন, মাসে মাসে বিদ্যুতের দাম সমন্বয় করা হবে। ভাবটা এরকম যে, এটা কারও একটা রাজত্ব, রাজার হুকুম মতো দেশ চলবে।

বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা হাবিবুর রহমান হাবিব, খায়রুল কবির খোকন, আবদুস সালাম আজাদ, মীর সরাফত আলী সপু, রফিকুল ইসলাম, সাইফুল আলম নিরব, রিয়াজ উদ্দিন নসু, মীর নেওয়াজ আলী, ঢাকা মহানগর উত্তরের কাজী আবুল বাশার, ইশরাক হোসেন, নবী উল্লাহ নবী, ইউনুস মৃধা, লিটন মাহমুদ, হাবিবুর রশীদ হাবিব, তানভীর আহমেদ রবিন, মহিলা দলের আফরোজা আব্বাস, রুমা আখতার, নার্গিস আখতার, যুবদলের মামুন হাসান, মোনায়েম মুন্না, স্বেচ্ছাসেবক দলের এসএস জিলানি, রাজিব আহসান, শ্রমিক দলের মোস্তাফিজুল করীম মজুমদার, সুমন ভুঁইয়া, তাঁতী দলের আবুল কালাম আজাদ, ছাত্রদলের কাজী রওনকুল ইসলাম শ্রাবণ, সাইফ মাহমুদ জুয়েলও পদযাত্রায় অংশ নেন।

back to top