alt

খেলা

বাংলাদেশ পাকিস্তান টেস্ট

এখন পর্যন্ত খেলা দুই পক্ষেই আছে: লিটন

ক্রীড়া বার্তা পরিবেশক : শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১

পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেনে শুরুতেই ৪ উইকেট হারিয়ে বসে বাংলাদেশ। সেখান থেকে বাংলাদেশ দলের রানের চাকা সচল করে লিটন কুমার দাস ও মুশফিকুর রহিম। মূলত তাদের ব্যাটিং নৈপূন্যেই বাংলাদেশ প্রথম দিন আর কোন উইকেট হারায়নি। ফলে ভালো অবস্থানে থেকে প্রথম দিন শেষ করে টিম বাংলাদেশ। এদিকে দ্বিতীয় দিন মাঠে নেমেই যেন ছন্ন ছাড়া বাংলাদেশ। শুরুতেই লেগ বিফোরের ফাঁদে পরে প্যাভিলিয়নে ফিরে যায় প্রথম দিনে সেঞ্চুরি করা লিটন। পরে আউট হয় ইয়াসির আলী রাব্বি। এরপর নার্ভাস নাইন্টিনে গিয়ে আউট হয় মুশফিক। মাত্র ৯ রানের জন্য সেঞ্চুরি থেকে বঞ্চিত হয় মুশি। ফলে দ্বিতীয় দিনে বাংলাদেশ স্কোর বোর্ডে ৩৩০ রান যোগ করতে পারে সব উইকেটের বিনিময়ে। এরপর ব্যাট করতে নেমে দ্বিতীয় দিনটা আরো ভালো করে পাকিস্তান। এখন দ্বিতীয় দিন শেষে সুবিধাজনক অবস্থানে আছে পাকিস্তান। নির্বিষ বোলিংয়ের দিনে বাংলাদেশ একমাত্র সুযোগটি তৈরি করেছিল ১২.৫ ওভারে। হাতের মুঠোয় আসা সুযোগটিও বাংলাদেশ কাজে লাগাতে পারেনি। বাংলাদেশের বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম ফেরাতে পারতেন পাকিস্তানের অভিষিক্ত ওপেনার আব্দুল্লাহ শফিককে।

তার স্ট্যাম্পের উপরের শর্ট বল কাট করতে গিয়েছিলেন শফিক। বল তার প্যাড ও ব্যাটে প্রায় একসঙ্গে আঘাত করে। বাংলাদেশের আবেদনে আম্পায়ার সাড়া দেননি। লিটন ও তাইজুল রিভিউয়ের জন্য আলোচনা করলেও পরে নেননি। অধিনায়ক মোমিনুল হকও দুই সতীর্থের ওপর ভরসা রাখেন। টিভি রিপ্লেতে দেখা যায়, বল শফিকের ব্যাটের আগে প্যাডে আঘাত করে। বলের ইমপ্যাক্টও ঠিক ছিল এবং উইকেটে হিট করতো। ৫৭ ওভারের বোলিংয়ে পাকিস্তান বাংলাদেশকে ওই একটি সুযোগই দিয়েছিল। রিভিউ নিলে নিশ্চিত বাংলাদেশ সাফল্য পেত। দিনশেষে একটি রিভিউ না নেওয়ার আক্ষেপে পুড়ছে বাংলাদেশ। অন্যদিকে সফরকারীদের শিবিরে স্বস্তির পরশ। প্রথমবার বড় মঞ্চে খেলতে নেমে ৫২ রানে অপরাজিত ডানহাতি ব্যাটসম্যান আসাদ শফিক।

দ্বিতীয় দিন শেষে দলের প্রতিনিধি হয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসেছিলেন লিটন। রিভিউ না নেয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে লিটন বলেছেন, ‘দেখুন রিভিউ জিনিসটা পুরোপুরি তাৎক্ষণিক। তাৎক্ষণিক মনে হয়েছে বলটা আগে ব্যাটে লেগেছে। যে কারণে আমরা রিভিউ নিইনি। যদি মনে হতো যে প্যাডে আগে লেগেছে তাহলে সন্দেহ নেই যে আমরা রিভিউ নিয়ে নিতাম। পাকিস্তান ভালো অবস্থায় আছে। কারণ, কোনো উইকেট হারায়নি। যদি ২/৩ উইকেট থাকতো, এই রানে বা এর থেকে বেশি…১৬০ রানে ৩ উইকেট থাকতো তাহলে স্কোর দেখতেও ভালো লাগত। তাহলে দুই দিকেই খেলা আছে। আমার মনে হয় আমরা যদি কাল (রোববার) আর্লি মর্নিং ২-৩ উইকেট নিতে পারি তাহলে সমান অবস্থায় চলে আসবো। এখন পর্যন্ত খেলা দুই পক্ষেই আছে।’

প্রতি ইনিংসে ২টি করে ব্যাটিং ও বোলিং রিভিউ পায় দলগুলো। আম্পায়ারের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানাতে ১৫ সেকেন্ড সময় পায়। নিজেদের সিদ্ধান্তহীনতায় বাংলাদেশ রিভিউ নিয়ে অনেকবারই ভুগেছে। যেমন, চট্টগ্রামে শেষ টেস্ট ম্যাচে কাইল মায়ার্সের একটি রিভিউ নিয়ে নিলে ম্যাচটা হারতে হতো না বাংলাদেশকে। আবার আফগানিস্তানের বিপক্ষে চট্টগ্রামে মিরাজ অযথা রিভিউ নিয়ে নষ্ট করায় সৌম্য ভুল সিদ্ধান্তের শিকার হয়েও রিভিউ নেওয়ার সুযোগ পাননি। মুশফিক গতকাল সকালে আউট হয়েও অযথা রিভিউ নিয়েছেন। তাৎক্ষণিক সিদ্ধান্ত অনেক সময় পক্ষে আসে অনেক সময় বিপক্ষে। কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ সময়ে রিভিউডের সিদ্ধান্ত নিয়ে অনেক সময় সাহস দেখাতে হয়। সেখানে অনেকটাই পিছিয়ে বাংলাদেশ।

লিটন দাস আরও বলেন, ‘এটা কঠিন প্রশ্ন যে ধারাবাহিকতা। সবাই চেষ্টা করেছে ধারাবাহিক হওয়ার জন্য। আমি কতটুকু দিতে পারব, রেজাল্ট কতটুকু হবে জানি না। কিন্তু আমি প্রক্রিয়া অনুসরণ করব। গত ছয়-সাত টেস্ট ধরে করে আসছি। একশো করেছি দেখে পরের দিন নামলে যে আবার একশো হবে তেমনটা না। টেস্ট ক্রিকেট অনেক টাফ ক্রিকেট। শূন্য থেকে শুরু করতে হয়, সব সময়ই চ্যালেঞ্জ। তো কঠিন এটা। আমি চেষ্টা করব যেভাবে গত ছয়-সাত টেস্টে খেলেছি সেভাবে খেলার জন্য। মানসিকভাবে বলতে গেলে। বিশ্বকাপের পর আমি জাতীয় লিগে আমি একটা ম্যাচ খেলেছি। প্রস্তুতি নিয়েছি যে সামনে টেস্ট ক্রিকেট। টেস্ট ক্রিকেটের জন্য যেটুক প্রস্তুতি দরকার সেটুকু প্রস্তুতি গ্রহণ করেছি। এর থেকে বাইরে কোন কিছু চিন্তাও করিনি, অতিরিক্ত কোন কিছু চাইও নাই নিজের কাছে।’

ছবি

সিমিওনেকে নিয়ে কথা বলবেন মেসি-রোনালদোসহ এক ঝাঁক তারকা

ছবি

মাশরাফির প্রত্যাবর্তন ম্যাচে ঢাকার বিপক্ষে হেসেখেলে জিতল সিলেট

ছবি

৪০২ দিন পর ফিরলেন মাশরাফি

ছবি

সিলেটের বিপক্ষে ১০০ রানেই গুটিয়ে গেল মিনিস্টার ঢাকা

ছবি

ম্যানইউ থেকে সেভিয়ায় যাচ্ছেন মার্শিয়াল

ছবি

আগে ফিল্ডিং করবে সিলেট, ঢাকার একাদশে মাশরাফি

ছবি

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ওয়ার্নার-মার্শের সাথে ল্যাঙ্গারকেও বিশ্রাম দিলো অস্ট্রেলিয়া

ছবি

ফুটবল ম্যাচ দেখতে গিয়ে পদপিষ্ট হয়ে ৬ জনের মৃত্যু

ছবি

লিজেন্ডস লিগে এশিয়ান লায়ন্সের জয়, আলো ছড়ালেন রফিক

টিভিতে আজকের খেলার সূচি

ছবি

চট্টগ্রামের টানা দ্বিতীয় জয়

ছবি

ব্যাটিং ব্যর্থতাকে দুষছেন বরিশালের কোচ সুজন

ছবি

ঢাকার বিপক্ষে পরাজয়ের দিনে সাকিবের ‘ডাবল’ রেকর্ড

ছবি

আইসিসির বর্ষসেরা শাহিন আফ্রিদি

ছবি

মাহমুদউল্লাহ-রাসেলের ব্যাটে চড়ে প্রথম জয়ের দেখা পেল ঢাকা

ছবি

আইসিসির বর্ষসেরা ওয়ানডে ক্রিকেটার বাবর আজম

ছবি

শেষ ৫ বলে ২৭ রান নিয়েও ১ রানের হার উইন্ডিজদের

ছবি

শেষ ম্যাচ হেরে কমনওয়েলথ স্বপ্ন শেষ নারী ক্রিকেট দলের

ছবি

টটেনহ্যামকে হারিয়ে চার ম্যাচ পর জয়ে ফিরলো চেলসি

ছবি

শেষ সময়ে ২ গোল করে হার এড়াল রিয়াল

ছবি

ডি ইয়ংয়ের গোলে পূর্ণ পয়েন্ট পেল বার্সেলোনা

ছবি

রামোসের প্রথম গোলে সহজ জয় পিএসজির

টিভিতে আজকের খেলার সূচি

ছবি

প্রোটিয়াদের কাছে হোয়াইটওয়াশ হলো ভারত

ছবি

প্যালেসকে হারিয়ে লড়াইয়ে টিকে রইল লিভারপুল

ছবি

২০৯ রান করেও জিততে পারলো না ভারত মহারাজাস

ছবি

আইসিসি বর্ষসেরা টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটার পাকিস্তানের রিজওয়ান

ছবি

হোল্ডারের ক্যারিয়ার সেরা বোলিংয়ে প্রথম টি-টুয়েন্টিতে নাকাল ইংল্যান্ড

ছবি

টানা ১২ ম্যাচ জেতা সিটিকে থামাল সাউদাম্পটন

ছবি

স্কটল্যান্ডের মেয়েদের উড়িয়ে দিয়ে টাইগ্রেসদের জয়ের হ্যাটট্রিক

ছবি

টি-টোয়েন্টি দলে আর ফিরতে চায় না তামিম : পাপন

ছবি

যুব বিশ্বকাপের কোয়ার্টার ফাইনালে বাংলাদেশ

ছবি

ইনজুরি টাইমের গোলে জয়ী হলো ম্যানইউ

টিভিতে আজকের খেলার সূচি

ছবি

মিনিস্টার ঢাকাকে হারিয়ে চট্টগ্রামের প্রথম জয়

ছবি

ক্যারাগহারকে গাধা বলেছেন মেসি!

tab

খেলা

বাংলাদেশ পাকিস্তান টেস্ট

এখন পর্যন্ত খেলা দুই পক্ষেই আছে: লিটন

ক্রীড়া বার্তা পরিবেশক

শনিবার, ২৭ নভেম্বর ২০২১

পাকিস্তানের বিপক্ষে প্রথম টেস্টে টস হেরে আগে ব্যাট করতে নেনে শুরুতেই ৪ উইকেট হারিয়ে বসে বাংলাদেশ। সেখান থেকে বাংলাদেশ দলের রানের চাকা সচল করে লিটন কুমার দাস ও মুশফিকুর রহিম। মূলত তাদের ব্যাটিং নৈপূন্যেই বাংলাদেশ প্রথম দিন আর কোন উইকেট হারায়নি। ফলে ভালো অবস্থানে থেকে প্রথম দিন শেষ করে টিম বাংলাদেশ। এদিকে দ্বিতীয় দিন মাঠে নেমেই যেন ছন্ন ছাড়া বাংলাদেশ। শুরুতেই লেগ বিফোরের ফাঁদে পরে প্যাভিলিয়নে ফিরে যায় প্রথম দিনে সেঞ্চুরি করা লিটন। পরে আউট হয় ইয়াসির আলী রাব্বি। এরপর নার্ভাস নাইন্টিনে গিয়ে আউট হয় মুশফিক। মাত্র ৯ রানের জন্য সেঞ্চুরি থেকে বঞ্চিত হয় মুশি। ফলে দ্বিতীয় দিনে বাংলাদেশ স্কোর বোর্ডে ৩৩০ রান যোগ করতে পারে সব উইকেটের বিনিময়ে। এরপর ব্যাট করতে নেমে দ্বিতীয় দিনটা আরো ভালো করে পাকিস্তান। এখন দ্বিতীয় দিন শেষে সুবিধাজনক অবস্থানে আছে পাকিস্তান। নির্বিষ বোলিংয়ের দিনে বাংলাদেশ একমাত্র সুযোগটি তৈরি করেছিল ১২.৫ ওভারে। হাতের মুঠোয় আসা সুযোগটিও বাংলাদেশ কাজে লাগাতে পারেনি। বাংলাদেশের বাঁহাতি স্পিনার তাইজুল ইসলাম ফেরাতে পারতেন পাকিস্তানের অভিষিক্ত ওপেনার আব্দুল্লাহ শফিককে।

তার স্ট্যাম্পের উপরের শর্ট বল কাট করতে গিয়েছিলেন শফিক। বল তার প্যাড ও ব্যাটে প্রায় একসঙ্গে আঘাত করে। বাংলাদেশের আবেদনে আম্পায়ার সাড়া দেননি। লিটন ও তাইজুল রিভিউয়ের জন্য আলোচনা করলেও পরে নেননি। অধিনায়ক মোমিনুল হকও দুই সতীর্থের ওপর ভরসা রাখেন। টিভি রিপ্লেতে দেখা যায়, বল শফিকের ব্যাটের আগে প্যাডে আঘাত করে। বলের ইমপ্যাক্টও ঠিক ছিল এবং উইকেটে হিট করতো। ৫৭ ওভারের বোলিংয়ে পাকিস্তান বাংলাদেশকে ওই একটি সুযোগই দিয়েছিল। রিভিউ নিলে নিশ্চিত বাংলাদেশ সাফল্য পেত। দিনশেষে একটি রিভিউ না নেওয়ার আক্ষেপে পুড়ছে বাংলাদেশ। অন্যদিকে সফরকারীদের শিবিরে স্বস্তির পরশ। প্রথমবার বড় মঞ্চে খেলতে নেমে ৫২ রানে অপরাজিত ডানহাতি ব্যাটসম্যান আসাদ শফিক।

দ্বিতীয় দিন শেষে দলের প্রতিনিধি হয়ে সংবাদ সম্মেলনে এসেছিলেন লিটন। রিভিউ না নেয়ার বিষয়ে জানতে চাইলে লিটন বলেছেন, ‘দেখুন রিভিউ জিনিসটা পুরোপুরি তাৎক্ষণিক। তাৎক্ষণিক মনে হয়েছে বলটা আগে ব্যাটে লেগেছে। যে কারণে আমরা রিভিউ নিইনি। যদি মনে হতো যে প্যাডে আগে লেগেছে তাহলে সন্দেহ নেই যে আমরা রিভিউ নিয়ে নিতাম। পাকিস্তান ভালো অবস্থায় আছে। কারণ, কোনো উইকেট হারায়নি। যদি ২/৩ উইকেট থাকতো, এই রানে বা এর থেকে বেশি…১৬০ রানে ৩ উইকেট থাকতো তাহলে স্কোর দেখতেও ভালো লাগত। তাহলে দুই দিকেই খেলা আছে। আমার মনে হয় আমরা যদি কাল (রোববার) আর্লি মর্নিং ২-৩ উইকেট নিতে পারি তাহলে সমান অবস্থায় চলে আসবো। এখন পর্যন্ত খেলা দুই পক্ষেই আছে।’

প্রতি ইনিংসে ২টি করে ব্যাটিং ও বোলিং রিভিউ পায় দলগুলো। আম্পায়ারের সিদ্ধান্তকে চ্যালেঞ্জ জানাতে ১৫ সেকেন্ড সময় পায়। নিজেদের সিদ্ধান্তহীনতায় বাংলাদেশ রিভিউ নিয়ে অনেকবারই ভুগেছে। যেমন, চট্টগ্রামে শেষ টেস্ট ম্যাচে কাইল মায়ার্সের একটি রিভিউ নিয়ে নিলে ম্যাচটা হারতে হতো না বাংলাদেশকে। আবার আফগানিস্তানের বিপক্ষে চট্টগ্রামে মিরাজ অযথা রিভিউ নিয়ে নষ্ট করায় সৌম্য ভুল সিদ্ধান্তের শিকার হয়েও রিভিউ নেওয়ার সুযোগ পাননি। মুশফিক গতকাল সকালে আউট হয়েও অযথা রিভিউ নিয়েছেন। তাৎক্ষণিক সিদ্ধান্ত অনেক সময় পক্ষে আসে অনেক সময় বিপক্ষে। কিন্তু গুরুত্বপূর্ণ সময়ে রিভিউডের সিদ্ধান্ত নিয়ে অনেক সময় সাহস দেখাতে হয়। সেখানে অনেকটাই পিছিয়ে বাংলাদেশ।

লিটন দাস আরও বলেন, ‘এটা কঠিন প্রশ্ন যে ধারাবাহিকতা। সবাই চেষ্টা করেছে ধারাবাহিক হওয়ার জন্য। আমি কতটুকু দিতে পারব, রেজাল্ট কতটুকু হবে জানি না। কিন্তু আমি প্রক্রিয়া অনুসরণ করব। গত ছয়-সাত টেস্ট ধরে করে আসছি। একশো করেছি দেখে পরের দিন নামলে যে আবার একশো হবে তেমনটা না। টেস্ট ক্রিকেট অনেক টাফ ক্রিকেট। শূন্য থেকে শুরু করতে হয়, সব সময়ই চ্যালেঞ্জ। তো কঠিন এটা। আমি চেষ্টা করব যেভাবে গত ছয়-সাত টেস্টে খেলেছি সেভাবে খেলার জন্য। মানসিকভাবে বলতে গেলে। বিশ্বকাপের পর আমি জাতীয় লিগে আমি একটা ম্যাচ খেলেছি। প্রস্তুতি নিয়েছি যে সামনে টেস্ট ক্রিকেট। টেস্ট ক্রিকেটের জন্য যেটুক প্রস্তুতি দরকার সেটুকু প্রস্তুতি গ্রহণ করেছি। এর থেকে বাইরে কোন কিছু চিন্তাও করিনি, অতিরিক্ত কোন কিছু চাইও নাই নিজের কাছে।’

back to top