alt

ক্যাম্পাস

জলঢাকায় মহিলা বিএম কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

প্রতিনিধি, জলঢাকা (নীলফামারী) : শনিবার, ০৪ জুলাই ২০২০
image

নীলফামারীর জলঢাকায় বালারপুকুর মহিলা টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড বিজনেন্স ম্যানেজমেন্ট কলেজের(বিএমআই) অধ্যক্ষ আবুল কাসেমের বিরুদ্ধে জাল কাগজপত্রের মাধ্যমে কলেজ এমপিও ভুক্তি করনের চেষ্টা, শিক্ষক নিয়োগ বানিজ্যসহ ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ করেছেন ওই কলেজের ভুক্তভোগী শিক্ষক কর্মচারীসহ স্থানীয়রা। জানা যায়, গত ৩০ এপ্রিল ২০১৯ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এমপিও ভুক্তির তালিকায় নাম আসে ওই প্রতিষ্ঠানের। অভিযোগের প্রক্ষিতে সরেজমিন গেলে কলেজ সংলগ্ন স্থানীয়রা জানান, এমপিও তালিকায় নাম আসার পর থেকে তড়িঘরি করে কলেজের অবকাঠামো নিমার্ণ,চেয়ার ব্রঞ্চ তৈরী,যাতায়তের রাস্তা তৈরীসহ যাবতীয় কাজ সম্পন করেন অধ্যক্ষ। তারা আরো জানান, এমপিও তালিকায় নাম আসার আগে একজন শিক্ষক কর্মচারীও ওই প্রতিষ্ঠান দেখা যায়নি। অভিযোগকারী ওই প্রতিষ্ঠানের কর্মচারী হাবিব মোস্তফা আনিছুজামান জানান, আমরা নিয়োগপ্রাপ্ত হলেও অধ্যক্ষ আমাদেরকে নিয়োগ সংক্রান্ত কোন কাগজপত্র দেননি। এমনকি কলেজ এমপিওভুক্তির পর এক, দুইজন শিক্ষক কর্মচারী রেখে বাকী সকল শিক্ষক কর্মচারীদেরকে মোটা অংকের অর্থের বিনিময়ে নতুন করে নিয়োগ দেন অধ্যক্ষ আবুল কাসেম। তিনি আরো জানান, অধ্যক্ষ আবুল কাসেম সীমাহীন দূর্নীতি ও জালিয়াতির মাধ্যমে অন্য মাদ্রাসার এমপিওভূক্ত শিক্ষিকা নিজের স্ত্রীকে নিয়োগ দেখিয়ে জাল ও ভূয়া কাগজপত্র তৈরী করে কলেজটি এমপিও ভুক্তির চেষ্টা করছেন। অভিযাগ প্রাপ্তির কথা স্বীকার করে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার চঞ্চল কুমার ভৌমিক বলেন, উপজেলা নিবার্হী অফিসারের নির্দেশে আমি অভিযোগের বিষয়টি তদন্ত করছি। সেখানে বেশ কিছু সমস্যা আছে। উপজেলা নিবার্হী অফিসারকে লিখিত আকারে জানানো হবে। উপজেলা নিবার্হী অফিসার মাহবুব হাসান বলেন, তদন্ত প্রতিবেদনের আলাকে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। অভিযোগের বিষয় জানতে ওই কলেজের অধ্যক্ষ আবুল কাসেমের সাথে বিভিন্ন ভাবে যোগাযাগের চেষ্টা এমনকি তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোন (০১৭৫৭৮৮৪৮৬৬) নম্বরে একাধিকবার কল দিলেও তিনি ফোন ধরেন নি।

ছবি

গবেষণা প্রকাশের জন্য শিক্ষক ও গবেষকদের অনুদান দেবে ঢাবি

ছবি

উনিশ দিন বন্ধ থাকবে ঢাবির অফিস

ছবি

নিরাপত্তা চেয়ে রাবি শিক্ষার্থীর জিডি

ছবি

ঢাবির জন্মশতবর্ষে কবিতা-প্রবন্ধ ও থিম সং আহ্বান

ফের পেছালো ঢাবির ভর্তি পরীক্ষা, শুরু ১ অক্টোবর

ছবি

জবি বিজ্ঞান ক্লাবের যাত্রা শুরু

ছবি

জন্ডিসে আক্রান্ত হয়ে রাবি শিক্ষার্থীর মৃত্যু

ছবি

ঢাবির ক-খ-গ-ঘ-চ ইউনিটের প্রবেশপত্র ডাউনলোড কার্যক্রম স্থগিত

ছবি

একজন অক্সিজেন ফেরিওয়ালার গল্প

ছবি

ডেঙ্গুতে মারা গেলেন জবি শিক্ষক

ছবি

ঢাবির শতবর্ষের উদ্বোধন, ১০০ বৃক্ষরোপণের কর্মসূচি

ছবি

ক্যাম্পাসে সশরীরে হবে না ঢাবির শতবর্ষ পূর্তি অনুষ্ঠান

ছবি

লকডাউনেও সশরীরে পরীক্ষা নিলো ঢাবি

ছবি

বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় নিরাপত্তা বাড়ানোর দাবি

ছবি

সুসম নিয়োগ নীতিমালা প্রণয়নসহ নীলদলের ২২ দাবি

ছবি

ফি দেয়ার সময় বাড়লো

ছবি

নীতিমালা ভেঙ্গে পরিকল্পনা পরিচালক নিয়োগ

‘সিনিয়র রোভার মেট’ নির্বাচিত হলেন জবির ২২ রোভার

ছবি

জবি লিও ক্লাবের সভাপতি এরফান, সেক্রেটারি রাওফুন

ছবি

‘খেলার মাঠে বাণিজ্যিক মার্কেট নির্মাণ চলবে না’

ছবি

অনির্দিষ্টকালের জন্য প্রশাসন ভবনে তালা!

ছবি

করোনাকালে সশরীরে ঢাবির পরীক্ষা, উপস্থিতি শতভাগ

ঈদের পর ইবিতে পরীক্ষা

ছবি

প্রাথমিক শিক্ষকদের বকেয়া ভাতার দাবীতে মানববন্ধন

ছবি

ছাত্রদলের সাংগঠনিক সম্পাদক থেকে ছাত্রলীগের সভাপতি

ছবি

ঢাবি শিক্ষক লীনা তাপসীর বিরুদ্ধে পিএইচডি জালিয়াতির অভিযোগ

ছবি

পুলিশের লাঠিচার্জে ছত্রভঙ্গ ‘৩২ চাই’ মিছিল

ছবি

করোনার টিকা প্রার্থী জবির সাড়ে নয় হাজার শিক্ষার্থী

ছবি

’অনলাইনে বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক নিয়োগ নজিরবিহীন’

ছবি

বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে রাবি শিক্ষার্থীর মৃত্যু

ছবি

জাবিতে ছয় শিক্ষক নিয়োগ বন্ধে হাইকোর্টে রিট

ছবি

শেষ সময়েও বিতর্কিত কর্মকান্ড বেরোবির উপাচার্য কলিমউল্লার

ছবি

বেরোবিতে শিক্ষার্থীদের পরীক্ষা নিতে গড়িমসি প্রশাসনের

ঢাবি শিক্ষক মোর্শেদের অপসারণ কেন অবৈধ নয় : হাইকোর্ট

ছবি

জবিতে ক্লাস-পরীক্ষার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত ১৩ জুন

ছবি

ইউজিসির নির্দেশ অমান্য করে ঢাকায় দাপ্তরিক কাজ করছেন

tab

ক্যাম্পাস

জলঢাকায় মহিলা বিএম কলেজের অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে অনিয়মের অভিযোগ

প্রতিনিধি, জলঢাকা (নীলফামারী)
image

শনিবার, ০৪ জুলাই ২০২০

নীলফামারীর জলঢাকায় বালারপুকুর মহিলা টেকনিক্যাল স্কুল এন্ড বিজনেন্স ম্যানেজমেন্ট কলেজের(বিএমআই) অধ্যক্ষ আবুল কাসেমের বিরুদ্ধে জাল কাগজপত্রের মাধ্যমে কলেজ এমপিও ভুক্তি করনের চেষ্টা, শিক্ষক নিয়োগ বানিজ্যসহ ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ করেছেন ওই কলেজের ভুক্তভোগী শিক্ষক কর্মচারীসহ স্থানীয়রা। জানা যায়, গত ৩০ এপ্রিল ২০১৯ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের অধীনে এমপিও ভুক্তির তালিকায় নাম আসে ওই প্রতিষ্ঠানের। অভিযোগের প্রক্ষিতে সরেজমিন গেলে কলেজ সংলগ্ন স্থানীয়রা জানান, এমপিও তালিকায় নাম আসার পর থেকে তড়িঘরি করে কলেজের অবকাঠামো নিমার্ণ,চেয়ার ব্রঞ্চ তৈরী,যাতায়তের রাস্তা তৈরীসহ যাবতীয় কাজ সম্পন করেন অধ্যক্ষ। তারা আরো জানান, এমপিও তালিকায় নাম আসার আগে একজন শিক্ষক কর্মচারীও ওই প্রতিষ্ঠান দেখা যায়নি। অভিযোগকারী ওই প্রতিষ্ঠানের কর্মচারী হাবিব মোস্তফা আনিছুজামান জানান, আমরা নিয়োগপ্রাপ্ত হলেও অধ্যক্ষ আমাদেরকে নিয়োগ সংক্রান্ত কোন কাগজপত্র দেননি। এমনকি কলেজ এমপিওভুক্তির পর এক, দুইজন শিক্ষক কর্মচারী রেখে বাকী সকল শিক্ষক কর্মচারীদেরকে মোটা অংকের অর্থের বিনিময়ে নতুন করে নিয়োগ দেন অধ্যক্ষ আবুল কাসেম। তিনি আরো জানান, অধ্যক্ষ আবুল কাসেম সীমাহীন দূর্নীতি ও জালিয়াতির মাধ্যমে অন্য মাদ্রাসার এমপিওভূক্ত শিক্ষিকা নিজের স্ত্রীকে নিয়োগ দেখিয়ে জাল ও ভূয়া কাগজপত্র তৈরী করে কলেজটি এমপিও ভুক্তির চেষ্টা করছেন। অভিযাগ প্রাপ্তির কথা স্বীকার করে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার চঞ্চল কুমার ভৌমিক বলেন, উপজেলা নিবার্হী অফিসারের নির্দেশে আমি অভিযোগের বিষয়টি তদন্ত করছি। সেখানে বেশ কিছু সমস্যা আছে। উপজেলা নিবার্হী অফিসারকে লিখিত আকারে জানানো হবে। উপজেলা নিবার্হী অফিসার মাহবুব হাসান বলেন, তদন্ত প্রতিবেদনের আলাকে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। অভিযোগের বিষয় জানতে ওই কলেজের অধ্যক্ষ আবুল কাসেমের সাথে বিভিন্ন ভাবে যোগাযাগের চেষ্টা এমনকি তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোন (০১৭৫৭৮৮৪৮৬৬) নম্বরে একাধিকবার কল দিলেও তিনি ফোন ধরেন নি।

back to top