alt

ক্যাম্পাস

তিন ঘন্টায় ‘কালাজ্বর’ শনাক্ত করবে ঢাবি অধ্যাপকের নেতৃত্বে উদ্ভাবিত পদ্ধতি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি : সোমবার, ০২ জানুয়ারী ২০২৩

কালাজ্বর নির্ণয়ে দেশে বেশ কয়েকটি পদ্ধতি প্রচলিত রয়েছে। তবে মূত্র নমুনা পরীক্ষার মাধ্যমে আরো সহজে মাত্র তিন ঘন্টায় ‘কালাজ্বর’ শনাক্তকরণের পদ্ধতি উদ্ভাবন করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) একদল গবেষক।

রোগ শনাক্তকরণে গতানুগতিকভাবে অনুসৃত বোন ম্যারো, স্পিন এসপিরেট কিংবা লিভার বায়োপসির পরিবর্তে মূত্র নমুনা ব্যবহার করে গবেষকদল এই মলিকিউলার ডায়াগনস্টিক পদ্ধতি উদ্ভাবন করেন। যা সম্পূর্ণ নির্ভুল এবং নিখুঁতভাবে কালাজ্বর শনাক্তকরণের জন্য একটি রোগীবান্ধব পদ্ধতি। গবেষকরা এটির নাম দিয়েছে আরটিপিসিআরভিত্তিক নন-ইনভেসিভ মলিকিউলার ডায়াগনস্টিক

সোমবার (২ জানুয়ারি) দুপুরে প্রফেসর আব্দুল মতিন চৌধুরী ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠেয় এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য তুলে ধরেন গবেষক দলের নেতৃত্ব দেওয়া অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মনজুরুল করিম।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, গ্রীষ্মমন্ডলীয় অঞ্চলের একটি উপেক্ষিত রোগ কালা আজার বা কালাজ্বর, যা লেশমানিয়াসিসের ৩টি রূপের মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ এবং প্রাণঘাতি। বিশ্বের ৬০টিরও বেশি দেশে কালাজ্বরের প্রকোপ আছে। যদিও এটি লেশমানিয়া গোত্রের একাধিক পরজীবীর মাধ্যমে ঘটে থাকে। বাংলাদেশে একমাত্র পরজীবীর অস্তিত্বই পাওয়া গেছে। কালাজ্বরের সংক্রমণ এতটাই গুরুতর ও মারাত্মক হয়ে থাকে যে এ রোগে মৃত্যুহার শতকরা ৯৫ শতাংশ পর্যন্ত বর্ধিত হতে পারে যদি চিকিৎসা করানো না হয়।

এই রোগ নির্ণয়ে পূর্বের পদ্ধতি ও উদ্ভাবিত পদ্ধতির কথা তুলনা করে তিনি বলেন, এর আগে এ রোগ নির্ণয়ে রক্তের ইমিউনোক্রোমাটোগ্রাফিক পরীক্ষা এবং অস্থি- মজ্জা, যকৃত, প্লীহা, লিম্ফ নোডের টিস্যু অণুবিক্ষণ যন্ত্রের মাধ্যমে পরীক্ষা করা হতো, যার প্রথমটির রোগ নির্ণয়ে নির্দিষ্টতা কম আর অন্যটিতে টিস্যু সংগ্রহের সময় মারাত্মক রক্তক্ষরণের ঝুঁকি বিদ্যমান।

বিয়েল টাইম পিসিআরভিত্তিক পরীক্ষণের মাধ্যমে থেকে দেখা যায়, প্রস্রাবে রক্ত এবং আগের অস্থি মজ্জার নমুনাগুলো থেকে পরজীবী শনাক্ত করার ক্ষেত্রে শতভাগ সংবেদনশীলতা প্রদর্শন করে। পাশাপাশি নিয়ন্ত্রণ গ্রুপগুলোতে অর্থাৎ গবেষণায় অংশগ্রহণকারী সুস্থ ব্যক্তি এবং কালাজ্বরের মতো অন্যান্য রোগ যেমন, মালেরিয়া, ডেঙ্গু এবং যক্ষ্মা আক্রান্ত ব্যক্তিদের প্রস্রাব এবং রক্তের নমুনায় কোনোরূপ সংবেদনশীলতা পরিলক্ষিত হয়নি।

গবেষকরা বলছেন, এ পদ্ধতি ব্যবহারের মাধ্যমে দ্রুততার সঙ্গে কালাজ্বর শনাক্ত করা সম্ভব যা রোগীর দ্রুত চিকিৎসা এবং রোগ নিরাময়ের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ। এই পদ্ধতির ব্যবহার বাংলাদেশকে কালাজ্বর নির্মূলের দিকে এক ধাপ এগিয়ে নিয়ে যাবে, যা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ২০৩০ সালের মধ্যে উপেক্ষিত গ্রীষ্মমন্ডলীয় রোগ নির্মূলের জন্য নির্ধারিত কার্যপ্রণালীর অন্যতম লক্ষ্য। প্রস্রাবের নমুনা ব্যবহার করে এই পদ্ধতিতে যে উল্লেখযোগ্য সংবেদনশীলতা এবং নির্দিষ্টতা পাওয়া গিয়েছে, তা রক্ত বা আরও জটিল নমুনা যেমন অস্থি-মজ্জা বা প্লীহার নমুনাভিত্তিক কালাজ্বর নির্ণয় পদ্ধতিকে প্রতিস্থাপন করতে পারবে।

প্রচলিত পিসিআর এবং নেস্টেড পিসিআর-ভিত্তিক কৌশলগুলির সঙ্গে তুলনা করলে, রিয়েল টাইম-পিসিআর-এর একটি ধাপেই রোগকে অধিক নির্ভুলতা এবং নিশ্চয়তার সঙ্গে শনাক্তকরণে সক্ষম, যা প্যাথলজিস্টদের জন্য কাজের চাপ কমিয়ে দেবে। এই পদ্ধতিটি একইসঙ্গে চিকিৎস্যপ্রতি রোগী ও জীবাণুর প্রতিক্রিয়া মূল্যায়ন, আক্রান্ত ব্যক্তির শরীরে পরজীবীর গতিবিধি, পরিবেশে সংক্রমণের গতিবিধি নিরূপণ এবং মহামারি সংক্রান্ত জরিপ পর্যবেক্ষণেও ব্যবহার করা যেতে পারে।

এ গবেষণা বিশ্বখ্যাত জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে জানিয়ে গবেষকরা বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অণুজীববিজ্ঞান বিভাগে করা কালাজ্বরের ক্লিনিকাল নমুনা হিসাবে প্রস্তাব ব্যবহার করার দৃষ্টান্ত ভারতীয় উপমহাদেশে এই প্রথম এবং এর ফলাফল বিশ্বখ্যাত একটি জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে।

ছবি

ঢাবিতে বাজেট ২০২৪-২৫: প্রত্যাশা ও প্রাপ্তি শীর্ষক সভা

ছবি

তীব্র গরমে লম্বা লাইনে ভোগান্তি শিক্ষার্থীদের

কোটা পুনবর্হালের প্রতিবাদে শিক্ষার্থী আন্দোলনে উত্তপ্ত ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়

জাবি শিক্ষার্থীকে হেনস্থা করে হলচু্্য: তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলে গাফিলতির অভিযোগ

ছবি

কোটা পুনর্বহালের প্রতিবাদে উত্তাল ঢাবি

ছবি

প্লাস্টিক বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় ইউনিলিভারের ‘অ্যাওয়্যার ওয়েভ’ ক্যাম্পেইন

ছবি

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে মুক্তিযোদ্ধা কোটা পুনর্বহালের প্রতিবাদ

ছবি

নারায়ণগঞ্জ থেকে শুরু হলো ওয়াইল্ড লাইফ অলিম্পিয়াড ২০২৪ এর আঞ্চলিকপর্ব

ছবি

কোটা পুনর্বহালের প্রতিবাদে ঢাবিতে শিক্ষার্থীদের বিক্ষোভ

ছবি

ছুটিতে ইবির আবাসিক হল খোলা রাখার দাবিতে স্মারকলিপি ও প্রধান ফটক অবরোধ

ছবি

ঈদের ছুটিতে বন্ধ ক্যাম্পাসে গাছ কাটার মহাযজ্ঞ

ছবি

স্বাস্থ্যবিমার আওতায় আনা হবে শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের : জবি উপাচার্য

ছবি

জবিতে প্রজেক্ট শেষেও স্হাপনা না সরিয়ে ক্লাসরুম দখলে রাখার অভিযোগ

ছবি

নামাজ পড়ানোর অনুমতি পেল জবির ইমাম

অবৈধভাবে দখলকৃত রাস্তা উন্মুক্তকরণসহ ১১‌ দফা দাবিতে স্মারকলিপি প্রদান

ছবি

জবিতে বসবাস করা কর্মচারীদের আবাসস্থল ত্যাগের নির্দেশ

ছবি

উদ্ভাবন ছাড়া টেকসই উন্নয়ন সম্ভব নয়- ঢাবি উপাচার্য

ছবি

জবির নতুন সহকারী প্রক্টরের দায়িত্বে দেওয়ান বদরুল

ছবি

জবির মসজিদে মধ্যরাতে ঘুমন্ত নারী, ইমামকে সাময়িক অব্যাহতি ও তদন্ত কমিটি

ছবি

ঢাকায় ৮ম নগর সংলাপ মঙ্গলবার

ছবি

অবন্তিকার আত্মহত্যা: অভিযুক্ত শিক্ষক দ্বীন ইসলাম ফিরতে চান ক্লাসে

ছবি

জবিতে বিনামূল্যে রক্তের গ্রুপ নির্ণয় করছে ‘বাঁধন’

ছবি

মেয়েদের পাশাপাশি ছেলেরাও যৌন হয়রানির শিকার হচ্ছে: সাদেকা হালিম

ছবি

ক্যান্সার আক্রান্ত জবি অধ্যাপককে বাঁচাতে এগিয়ে আসুন

ছবি

টিউশনের প্রলোভন দেখিয়ে কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের সঙ্গে প্রতারণা

ছবি

১১তম পরিবেশ বিতর্ক প্রতিযোগিতায় চ্যাম্পিয়ন রাবি

ছবি

যাদের প্রিয় কিছু নেই, তাদের জীবন অন্তঃসারশূন্য: জবি উপাচার্য

পেনশন স্কিম বাতিলের দাবিতে কর্মবিরতিসহ কঠোর কর্মসূচির হুঁশিয়ারি ঢাবি শিক্ষক সমিতির

ছবি

জাবিতে স্বেচ্ছাচারিতা ও অসৌজন্যমূলক আচরণের প্রতিবাদে প্রভোস্ট কক্ষে তালা

৩.৬৫ পেয়ে তৃতীয় হলেন জবির সেই অবন্তিকা

ছবি

বশেমুরকৃবিতে কৃষিতে রিমোট সেন্সিং ও জিআইএস এর ব্যবহার বিষয়ক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

ছবি

বারিতে ক্যানসার কোষ কালচার বিষয়ে সেমিনার অনুষ্ঠিত

ছবি

গাজীপুরে ডুয়েট শিক্ষকদের মৌন মিছিল, প্রতিবাদ সভা

ছবি

বশেমুরকৃবি ভেটেরিনারি টিচিং হসপিটালে ইয়ং ডক্টরস লার্নিং প্রোগ্রাম অনুষ্ঠিত

ছবি

কৃষ্ণচূড়ার আগুন রঙ্গে সেজেছে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস

ছবি

বিএআরআই বিজ্ঞানীদের নতুন প্রযুক্তি বিষয়ক প্রশিক্ষণ অনুষ্ঠিত

tab

ক্যাম্পাস

তিন ঘন্টায় ‘কালাজ্বর’ শনাক্ত করবে ঢাবি অধ্যাপকের নেতৃত্বে উদ্ভাবিত পদ্ধতি

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি

সোমবার, ০২ জানুয়ারী ২০২৩

কালাজ্বর নির্ণয়ে দেশে বেশ কয়েকটি পদ্ধতি প্রচলিত রয়েছে। তবে মূত্র নমুনা পরীক্ষার মাধ্যমে আরো সহজে মাত্র তিন ঘন্টায় ‘কালাজ্বর’ শনাক্তকরণের পদ্ধতি উদ্ভাবন করেছে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) একদল গবেষক।

রোগ শনাক্তকরণে গতানুগতিকভাবে অনুসৃত বোন ম্যারো, স্পিন এসপিরেট কিংবা লিভার বায়োপসির পরিবর্তে মূত্র নমুনা ব্যবহার করে গবেষকদল এই মলিকিউলার ডায়াগনস্টিক পদ্ধতি উদ্ভাবন করেন। যা সম্পূর্ণ নির্ভুল এবং নিখুঁতভাবে কালাজ্বর শনাক্তকরণের জন্য একটি রোগীবান্ধব পদ্ধতি। গবেষকরা এটির নাম দিয়েছে আরটিপিসিআরভিত্তিক নন-ইনভেসিভ মলিকিউলার ডায়াগনস্টিক

সোমবার (২ জানুয়ারি) দুপুরে প্রফেসর আব্দুল মতিন চৌধুরী ভার্চুয়াল ক্লাসরুমে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠেয় এক সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য তুলে ধরেন গবেষক দলের নেতৃত্ব দেওয়া অধ্যাপক ড. মুহাম্মদ মনজুরুল করিম।

সংবাদ সম্মেলনে তিনি বলেন, গ্রীষ্মমন্ডলীয় অঞ্চলের একটি উপেক্ষিত রোগ কালা আজার বা কালাজ্বর, যা লেশমানিয়াসিসের ৩টি রূপের মধ্যে সবচেয়ে ভয়াবহ এবং প্রাণঘাতি। বিশ্বের ৬০টিরও বেশি দেশে কালাজ্বরের প্রকোপ আছে। যদিও এটি লেশমানিয়া গোত্রের একাধিক পরজীবীর মাধ্যমে ঘটে থাকে। বাংলাদেশে একমাত্র পরজীবীর অস্তিত্বই পাওয়া গেছে। কালাজ্বরের সংক্রমণ এতটাই গুরুতর ও মারাত্মক হয়ে থাকে যে এ রোগে মৃত্যুহার শতকরা ৯৫ শতাংশ পর্যন্ত বর্ধিত হতে পারে যদি চিকিৎসা করানো না হয়।

এই রোগ নির্ণয়ে পূর্বের পদ্ধতি ও উদ্ভাবিত পদ্ধতির কথা তুলনা করে তিনি বলেন, এর আগে এ রোগ নির্ণয়ে রক্তের ইমিউনোক্রোমাটোগ্রাফিক পরীক্ষা এবং অস্থি- মজ্জা, যকৃত, প্লীহা, লিম্ফ নোডের টিস্যু অণুবিক্ষণ যন্ত্রের মাধ্যমে পরীক্ষা করা হতো, যার প্রথমটির রোগ নির্ণয়ে নির্দিষ্টতা কম আর অন্যটিতে টিস্যু সংগ্রহের সময় মারাত্মক রক্তক্ষরণের ঝুঁকি বিদ্যমান।

বিয়েল টাইম পিসিআরভিত্তিক পরীক্ষণের মাধ্যমে থেকে দেখা যায়, প্রস্রাবে রক্ত এবং আগের অস্থি মজ্জার নমুনাগুলো থেকে পরজীবী শনাক্ত করার ক্ষেত্রে শতভাগ সংবেদনশীলতা প্রদর্শন করে। পাশাপাশি নিয়ন্ত্রণ গ্রুপগুলোতে অর্থাৎ গবেষণায় অংশগ্রহণকারী সুস্থ ব্যক্তি এবং কালাজ্বরের মতো অন্যান্য রোগ যেমন, মালেরিয়া, ডেঙ্গু এবং যক্ষ্মা আক্রান্ত ব্যক্তিদের প্রস্রাব এবং রক্তের নমুনায় কোনোরূপ সংবেদনশীলতা পরিলক্ষিত হয়নি।

গবেষকরা বলছেন, এ পদ্ধতি ব্যবহারের মাধ্যমে দ্রুততার সঙ্গে কালাজ্বর শনাক্ত করা সম্ভব যা রোগীর দ্রুত চিকিৎসা এবং রোগ নিরাময়ের জন্য অনেক গুরুত্বপূর্ণ। এই পদ্ধতির ব্যবহার বাংলাদেশকে কালাজ্বর নির্মূলের দিকে এক ধাপ এগিয়ে নিয়ে যাবে, যা বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ২০৩০ সালের মধ্যে উপেক্ষিত গ্রীষ্মমন্ডলীয় রোগ নির্মূলের জন্য নির্ধারিত কার্যপ্রণালীর অন্যতম লক্ষ্য। প্রস্রাবের নমুনা ব্যবহার করে এই পদ্ধতিতে যে উল্লেখযোগ্য সংবেদনশীলতা এবং নির্দিষ্টতা পাওয়া গিয়েছে, তা রক্ত বা আরও জটিল নমুনা যেমন অস্থি-মজ্জা বা প্লীহার নমুনাভিত্তিক কালাজ্বর নির্ণয় পদ্ধতিকে প্রতিস্থাপন করতে পারবে।

প্রচলিত পিসিআর এবং নেস্টেড পিসিআর-ভিত্তিক কৌশলগুলির সঙ্গে তুলনা করলে, রিয়েল টাইম-পিসিআর-এর একটি ধাপেই রোগকে অধিক নির্ভুলতা এবং নিশ্চয়তার সঙ্গে শনাক্তকরণে সক্ষম, যা প্যাথলজিস্টদের জন্য কাজের চাপ কমিয়ে দেবে। এই পদ্ধতিটি একইসঙ্গে চিকিৎস্যপ্রতি রোগী ও জীবাণুর প্রতিক্রিয়া মূল্যায়ন, আক্রান্ত ব্যক্তির শরীরে পরজীবীর গতিবিধি, পরিবেশে সংক্রমণের গতিবিধি নিরূপণ এবং মহামারি সংক্রান্ত জরিপ পর্যবেক্ষণেও ব্যবহার করা যেতে পারে।

এ গবেষণা বিশ্বখ্যাত জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে জানিয়ে গবেষকরা বলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের অণুজীববিজ্ঞান বিভাগে করা কালাজ্বরের ক্লিনিকাল নমুনা হিসাবে প্রস্তাব ব্যবহার করার দৃষ্টান্ত ভারতীয় উপমহাদেশে এই প্রথম এবং এর ফলাফল বিশ্বখ্যাত একটি জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে।

back to top