alt

অপরাধ ও দুর্নীতি

বন্ধুর সহায়তায় প্রবাসীর স্ত্রীকে খুন করে ঘরের মালামাল লুট করে আপন ভাই

প্রতিনিধি, গাজীপুর : শুক্রবার, ০৫ এপ্রিল ২০২৪

গাজীপুরের কাপাসিয়াতে প্রবাসীর স্ত্রীকে হাত-পা বেঁধে শ্বাসরোধে হত্যার ঘটনায় বন্ধুসহ আপন ভাইকে গ্রেফতার করেছে গাজীপুর পিবিআই। ঋণগ্রস্থ ভাই ঋণের টাকা পরিশোধ করতে আপন বোনের ঘরে বন্ধুকে নিয়ে চুরি করার পরিকল্পনা করে, এসময় বোন চিৎকার করলে তার হাত-পা বেঁধে শ্বাসরোধে হত্যা করে ঘরে টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নেয়।

শুক্রবার (৫ এপ্রিল) দুপুরে গাজীপুর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)’র পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাকছুদের রহমান বিপিএম এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার (২এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৮ কাপাসিয়া উপজেলার সিংহশ্রী ইউনিয়নের পূর্ব ভিটিপাড়া গ্রামের দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাসী মোঃ মোশারফ হোসেনের স্ত্রী শাহনাজ বেগম শিমু (৩৯) মরদেহ নিজ বসত ঘরের ভেতর থেকে উদ্ধার করা হয়। এঘটনায় নিহতের বাবা মো: সিরাজ উদ্দিন বেপারী কাপাসিয়া থানায় অজ্ঞাত আসামীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করলে শাহনাজ বেগম শিমু’র আপন ছোট ভাই কাপাসিয়ার কুলগঙ্গা গ্রামের মো: সিরাজ উদ্দিন বেপারীর ছেলে মোঃ কামরুজ্জামান রুবেল (৩৬) ও শেরপুর জেলার শ্রীবর্দী থানার মামদাবাড়ি গ্রামের আস্কর আলীর ছেলে মোঃ মিনাল ওরফে মিষ্টার (২১) কে গ্রেফতার করেছে পিবিআই।

গাজীপুর পিবিআই’র উপ-পরিদর্শক ও তদন্ত কর্মকর্তা মোঃ সালেহ্ ইমরান বিপিএম বলেন, মরদেহ উদ্ধারের পরপরই কাপাসিয়া থানা পুলিশের পাশাপাশি গাজীপুর পিবিআই’র একাধিক টিম মামলাটির রহস্য উদঘাটনে ছায়া তদন্তে নামে। গোয়েন্দা তথ্য ও আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার করে হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত মূল আসামী মোঃ কামরুজ্জামান রুবেলকে বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) বিকেলে গাজীপুর মহানগরের গাছা থানা এলাকা হতে ও পরে তার দেয়া তথ্য মতে একই দিন মোঃ মিনাল ওরফে মিষ্টারকে ঢাকার উত্তরা পশ্চিম থানা এলাকা থেকে একই দিন গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জানায়, নিহত শিমুর আপন ছোট ভাই রুবেল গাজীপুরে একটি আবাসিক হোটেলে চাকুরী করতো। পাঁচ মাস আগে রুবেল ওই হোটেলের চাকুরী ছেড়ে দিলে অর্থনৈতিক সংকটে পরে, অনেকের কাছ থেকে টাকা ঋণ করে। ঋণে জর্জরিত রুবেল ঋণের টাকা পরিশোধ করতে গিয়ে বোন শিমুর বাসায় চুরির পরিকল্পনা করে এবং দুইদিন আগে অপর আসামী মোঃ মিনাল ওরফে মিষ্টারের সাথে যোগাযোগ করে। ঘটনার দিন বিকেলে মিস্টার জয়দেবপুর রেল স্টেশনে আসে। এসময় রুবেল ও মিনাল একটি ব্যাগের মধ্যে একটি সুইচ গিয়ার চাকু, প্লাস, গামছা, কেচি নিয়ে ট্রেনে করে শ্রীপুর স্টেশনে নামে। সেখান থেকে অটোরিক্সা ভাড়া করে বরমী পুরাতন বাস স্ট্যান্ড এলাকায় যায়। সেখানে কিছু সময় অপেক্ষা তারা অটোরিক্সা দিয়ে রাত ৮টার দিকে তারা সেখান থেকে বরামা ব্রিজ এলাকায় যায়, বরামা ব্রিজ পাড় হয়ে পায়ে হেঁটে তারা ভিকটিম শাহনাজ আক্তার শিমুর বাড়ীর সামনে আখ খেতে লুকায়। রাত ১২টার দিকে রুবেল-মিস্টার শিমুর বাড়ীর সীমানা প্রাচীরের উপর দিয়ে বাসার ছাদে উঠে। ছাদ থেকে রান্না ঘরের সিমেন্টের টিন খুলে রান্না ঘরে প্রবেশের চেষ্টা করে। রান্না ঘর থেকে দরজা খুলে বাইরে এসে বাড়ীর পেছনের খোলা জানালায় বাঁশের লাঠি দিয়ে ভেতরের সিটকারী খুলে ঘরের ভেতরে ঢুকে। এসময় তাদের সাড়াশব্দ পেয়ে ঘুম ভাঙ্গলে শিমু চিৎকার শুরু করলে মিনাল সুইচ গিয়ার ছুরি দেখিয়ে ভয় দেখায়, কিন্তু শিমু চিৎকার না থামালে গামছা দিয়ে মিশুর মুখ চেপে ধরে এবং রুবেল শিমু’র হাত দঁড়ি দিয়ে বেঁধে ফেলে এসময় রুবেলের দুই হাতে শিমুর হাতের নখের আচড় লাগে। রুবেলকে যাতে চিনতে না পারে, সেজন্য শিমুর চোখ, মুখ, গামছা দিয়ে বেঁধে ফেললে শিমুর মিনালের সাথে ধস্তাধস্তি শুরু করলে আসামী মিষ্টার শিমুর মুখে আঘাত করে এবং শিমুর বুকের উপর বসে গলায় চেপে ধরে। এরপর আসামী রুবেল টেবিলের ড্রয়ার থেকে চাবি নিয়ে আলমারি খুলে স্বর্ণালংকার ও তিন হাজার টাকা, শিমুর মোবাইল ফোন নিয়ে নিয়ে রুবেল ও মিষ্টার ভিকটিম শিমু’র হাত ও পা বেঁধে বাড়ির পকেট গেট দিয়ে বের হয়ে চলে যায়। পরদিন সকালে রুবেল চাকু, প্লাস ও মোবাইল সেট ভেঙ্গে ঝাজর এলাকায় ব্রিজের নিচে খালের পানিতে ফেলে দেয় এবং লুন্ঠিত স্বর্ণালংকার দেড় লাখ টাকা বিক্রি করে। রুবেলকে গ্রেফতারের পর স্বর্ণ বিক্রির ৫৭হাজার টাকা উদ্ধার ও তার দেয়া তথ্যমতে গাজীপুর মহানগরের ঝাজর কবরস্থান ব্রীজের নীচে খাল থেকে প্লাস, সুইচ গিয়ার চাকু ও চোরাইকৃত মোবাইল সেটের খন্ডিত অংশ উদ্ধার করা হয়েছে।

গাজীপুর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)’র পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাকছুদের রহমান বিপিএম বলেন, নিহতের ভাই রুবেল ও মিস্টার স্বেচ্ছায় আদালতে স্বীকারোক্তি মুলক জবান দিয়েছে। স্বর্ণ বিক্রির অবশিষ্ট টাকা ও স্বর্ণ উদ্ধারে অভিযান চলছে।

ছবি

সাভারে সংবাদ সংগ্রহে গিয়ে হামলার শিকার সাংবাদিক

ছবি

আজীমকে দুই দিন জীবিত রেখে ব্ল্যাকমেইলের পরিকল্পনা ছিল খুনিদের : ডিবি

সোনারগাঁয়ে স্ত্রী হত্যার অভিযোগে স্বামী গ্রেফতার

ছবি

এমপি আজিম খুনে কলকাতায় ‘কসাই’ জিহাদ রিমান্ডে, লাশের অংশের খোঁজে পুলিশ

ছবি

এমপি আজিম হত্যা: ভারতে গ্রেপ্তার সেই ‘কসাই’ দেড় বছর ধরে এলাকায় পলাতক

ছবি

আখতারুজ্জামান হোতা, শিমুল বাস্তবায়নকারী : ডিবি

ছবি

আখতারুজ্জামান হোতা, শিমুল বাস্তবায়নকারী : ডিবি

ছবি

সাবেক আইজিপি বেনজীরের সম্পত্তি ক্রোক, ব্যাংক হিসাব ফ্রিজ করার আদেশ

ছবি

জামিন নিতে শ্রম আপিল ট্রাইব্যুনালে ড. ইউনূস

ছবি

আড়াইহাজারে কিশোরী গণধর্ষণ : অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার ৪

ছবি

পাহাড়কেন্দ্রিক অপহরণ চক্রের প্রধান মোর্শেদ অস্ত্রসহ গ্রেপ্তার

২২ বছর পর স্ত্রী হত্যায় যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত স্বামী গ্রেপ্তার

আড়াইহাজারে কিশোরীকে তুলে নিয়ে সংঘবদ্ধ ধর্ষণ

৭ বছর পর শিশু হত্যা রহস্য উদ্ঘাটন

ব্যবসার আড়ালে অনলাইনে প্রতারণার অভিযোগ

ছবি

ঢাকা বাড্ডায় এক হত্যা মামলায় তিন আসামির যাবজ্জীবন

ছবি

সাগর-রুনি হত্যা: মামলার প্রতিবেদন জমা আবারও পেছালো

ছবি

আদালতের সময় নষ্ট করায় সেলিম প্রধানকে জরিমানা

খুলনা ও মৌলভীবাজারে চার জনের মৃত্যুদণ্ড

ছবি

রোহিঙ্গা ক্যাম্পে দেড় বছরে ৮০ জন হত্যা

ছবি

উড়োজাহাজ লিজে অনিয়ম: বিমানের সাবেক এমডিসহ ১৬ জনের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র

চাকরি দেওয়ার কথা বলে অর্থ আত্মসাৎ, বরখাস্ত অফিস সহায়কের বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

ছবি

সার আত্মসাৎ মামলায় সাবেক এমপি পোটনসহ ৫ জন কারাগারে

ছবি

বিমানবন্দর ও টঙ্গী থেকে ৭ ছিনতাইকারী গ্রেপ্তার

ছবি

ইন্স্যুরেন্স চাকরির আড়ালে জঙ্গি সংগঠনের রিক্রুটার : ডিবি

ছবি

স্বামী-স্ত্রীর যাবজ্জীবন কারাদণ্ড

গোবিন্দগঞ্জে নির্যাতন করে গৃহবধূর মাথার চুল কেটে দিয়েছে প্রতিপক্ষ, ৩জন গ্রেফতার

লাখে ১১ হাজার লাভ দেয়ার প্রলোভন দেখিয়ে ৬৩ লাখ টাকা আত্মসাৎ

ছবি

ধর্ম অবমাননায় ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে জবি শিক্ষার্থীর পাঁচ বছরের কারাদণ্ড

ভারতে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে কিডনি হাতিয়ে নিতো চক্রটি

ছবি

আনসারুল্লাহ বাংলা টিমের সক্রিয় সদস্য গ্রেপ্তার

ছবি

ডিজিটাল ডিভাইসে জানানো হতো উত্তর,১০মিনিটে পরীক্ষা শেষ

সংবাদের সার্কুলেশন ম্যানেজারকে প্রাণনাশের হুমকি

ছবি

নায়ক সোহেল চৌধুরী হত্যা: আজিজ মোহাম্মদ ভাই ও দুইজনের যাবজ্জীবন, খালাস ৬

মাদকের তথ্য দেয়ায় হাতের রগ কর্তন, আসামীর পরিবর্তে ভুক্তভোগীকেই আটক, পরে ৫০ হাজার টাকায় মুক্তি

সাবেক এসপি সুব্রত কুমার হালদারসহ ৫ জনের বিরুদ্ধে দুদকের চার্জশিট

tab

অপরাধ ও দুর্নীতি

বন্ধুর সহায়তায় প্রবাসীর স্ত্রীকে খুন করে ঘরের মালামাল লুট করে আপন ভাই

প্রতিনিধি, গাজীপুর

শুক্রবার, ০৫ এপ্রিল ২০২৪

গাজীপুরের কাপাসিয়াতে প্রবাসীর স্ত্রীকে হাত-পা বেঁধে শ্বাসরোধে হত্যার ঘটনায় বন্ধুসহ আপন ভাইকে গ্রেফতার করেছে গাজীপুর পিবিআই। ঋণগ্রস্থ ভাই ঋণের টাকা পরিশোধ করতে আপন বোনের ঘরে বন্ধুকে নিয়ে চুরি করার পরিকল্পনা করে, এসময় বোন চিৎকার করলে তার হাত-পা বেঁধে শ্বাসরোধে হত্যা করে ঘরে টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট করে নেয়।

শুক্রবার (৫ এপ্রিল) দুপুরে গাজীপুর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)’র পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাকছুদের রহমান বিপিএম এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এসব তথ্য জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার (২এপ্রিল) সকাল সাড়ে ৮ কাপাসিয়া উপজেলার সিংহশ্রী ইউনিয়নের পূর্ব ভিটিপাড়া গ্রামের দক্ষিণ কোরিয়া প্রবাসী মোঃ মোশারফ হোসেনের স্ত্রী শাহনাজ বেগম শিমু (৩৯) মরদেহ নিজ বসত ঘরের ভেতর থেকে উদ্ধার করা হয়। এঘটনায় নিহতের বাবা মো: সিরাজ উদ্দিন বেপারী কাপাসিয়া থানায় অজ্ঞাত আসামীদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করলে শাহনাজ বেগম শিমু’র আপন ছোট ভাই কাপাসিয়ার কুলগঙ্গা গ্রামের মো: সিরাজ উদ্দিন বেপারীর ছেলে মোঃ কামরুজ্জামান রুবেল (৩৬) ও শেরপুর জেলার শ্রীবর্দী থানার মামদাবাড়ি গ্রামের আস্কর আলীর ছেলে মোঃ মিনাল ওরফে মিষ্টার (২১) কে গ্রেফতার করেছে পিবিআই।

গাজীপুর পিবিআই’র উপ-পরিদর্শক ও তদন্ত কর্মকর্তা মোঃ সালেহ্ ইমরান বিপিএম বলেন, মরদেহ উদ্ধারের পরপরই কাপাসিয়া থানা পুলিশের পাশাপাশি গাজীপুর পিবিআই’র একাধিক টিম মামলাটির রহস্য উদঘাটনে ছায়া তদন্তে নামে। গোয়েন্দা তথ্য ও আধুনিক প্রযুক্তির ব্যবহার করে হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত মূল আসামী মোঃ কামরুজ্জামান রুবেলকে বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) বিকেলে গাজীপুর মহানগরের গাছা থানা এলাকা হতে ও পরে তার দেয়া তথ্য মতে একই দিন মোঃ মিনাল ওরফে মিষ্টারকে ঢাকার উত্তরা পশ্চিম থানা এলাকা থেকে একই দিন গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতারকৃতরা প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের জানায়, নিহত শিমুর আপন ছোট ভাই রুবেল গাজীপুরে একটি আবাসিক হোটেলে চাকুরী করতো। পাঁচ মাস আগে রুবেল ওই হোটেলের চাকুরী ছেড়ে দিলে অর্থনৈতিক সংকটে পরে, অনেকের কাছ থেকে টাকা ঋণ করে। ঋণে জর্জরিত রুবেল ঋণের টাকা পরিশোধ করতে গিয়ে বোন শিমুর বাসায় চুরির পরিকল্পনা করে এবং দুইদিন আগে অপর আসামী মোঃ মিনাল ওরফে মিষ্টারের সাথে যোগাযোগ করে। ঘটনার দিন বিকেলে মিস্টার জয়দেবপুর রেল স্টেশনে আসে। এসময় রুবেল ও মিনাল একটি ব্যাগের মধ্যে একটি সুইচ গিয়ার চাকু, প্লাস, গামছা, কেচি নিয়ে ট্রেনে করে শ্রীপুর স্টেশনে নামে। সেখান থেকে অটোরিক্সা ভাড়া করে বরমী পুরাতন বাস স্ট্যান্ড এলাকায় যায়। সেখানে কিছু সময় অপেক্ষা তারা অটোরিক্সা দিয়ে রাত ৮টার দিকে তারা সেখান থেকে বরামা ব্রিজ এলাকায় যায়, বরামা ব্রিজ পাড় হয়ে পায়ে হেঁটে তারা ভিকটিম শাহনাজ আক্তার শিমুর বাড়ীর সামনে আখ খেতে লুকায়। রাত ১২টার দিকে রুবেল-মিস্টার শিমুর বাড়ীর সীমানা প্রাচীরের উপর দিয়ে বাসার ছাদে উঠে। ছাদ থেকে রান্না ঘরের সিমেন্টের টিন খুলে রান্না ঘরে প্রবেশের চেষ্টা করে। রান্না ঘর থেকে দরজা খুলে বাইরে এসে বাড়ীর পেছনের খোলা জানালায় বাঁশের লাঠি দিয়ে ভেতরের সিটকারী খুলে ঘরের ভেতরে ঢুকে। এসময় তাদের সাড়াশব্দ পেয়ে ঘুম ভাঙ্গলে শিমু চিৎকার শুরু করলে মিনাল সুইচ গিয়ার ছুরি দেখিয়ে ভয় দেখায়, কিন্তু শিমু চিৎকার না থামালে গামছা দিয়ে মিশুর মুখ চেপে ধরে এবং রুবেল শিমু’র হাত দঁড়ি দিয়ে বেঁধে ফেলে এসময় রুবেলের দুই হাতে শিমুর হাতের নখের আচড় লাগে। রুবেলকে যাতে চিনতে না পারে, সেজন্য শিমুর চোখ, মুখ, গামছা দিয়ে বেঁধে ফেললে শিমুর মিনালের সাথে ধস্তাধস্তি শুরু করলে আসামী মিষ্টার শিমুর মুখে আঘাত করে এবং শিমুর বুকের উপর বসে গলায় চেপে ধরে। এরপর আসামী রুবেল টেবিলের ড্রয়ার থেকে চাবি নিয়ে আলমারি খুলে স্বর্ণালংকার ও তিন হাজার টাকা, শিমুর মোবাইল ফোন নিয়ে নিয়ে রুবেল ও মিষ্টার ভিকটিম শিমু’র হাত ও পা বেঁধে বাড়ির পকেট গেট দিয়ে বের হয়ে চলে যায়। পরদিন সকালে রুবেল চাকু, প্লাস ও মোবাইল সেট ভেঙ্গে ঝাজর এলাকায় ব্রিজের নিচে খালের পানিতে ফেলে দেয় এবং লুন্ঠিত স্বর্ণালংকার দেড় লাখ টাকা বিক্রি করে। রুবেলকে গ্রেফতারের পর স্বর্ণ বিক্রির ৫৭হাজার টাকা উদ্ধার ও তার দেয়া তথ্যমতে গাজীপুর মহানগরের ঝাজর কবরস্থান ব্রীজের নীচে খাল থেকে প্লাস, সুইচ গিয়ার চাকু ও চোরাইকৃত মোবাইল সেটের খন্ডিত অংশ উদ্ধার করা হয়েছে।

গাজীপুর পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)’র পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মাকছুদের রহমান বিপিএম বলেন, নিহতের ভাই রুবেল ও মিস্টার স্বেচ্ছায় আদালতে স্বীকারোক্তি মুলক জবান দিয়েছে। স্বর্ণ বিক্রির অবশিষ্ট টাকা ও স্বর্ণ উদ্ধারে অভিযান চলছে।

back to top