alt

রাজনীতি

ঝামেলা না করে নয়াপল্টনে সমাবেশের অনুমতি দিন : ফখরুল

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট : বুধবার, ২৩ নভেম্বর ২০২২

বিএনপি নিয়ম মেনে সমাবেশের আবেদন করেছে জানিয়ে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর পুলিশের উদ্দেশ্যে বলেছেন, ‘নয়াপল্টনে সমাবেশ করার কথা বলা হয়েছে। তারা (পুলিশ) সমাবেশের স্থান দেয়নি এখনও। কোন ঝামেলা না করে সমাবেশের স্থানের অনুমতি দিন।’

বুধবার (২৩ নভেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবে অনুষ্ঠিত এক সেমিনারে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল।

‘দেউলিয়াত্ব ঘোচাতে দুর্ভিক্ষের নাটক? দেশ কোন পথে’ শীর্ষক এ সেমিনারের আয়োজন করে নাগরিক ঐক্য।

আওয়ামী লীগ যখনই ক্ষমতায় আসে দুর্ভিক্ষ হয় মন্তব্য করে মির্জা ফখরুল বলেন, সাধারণ মানুষের দুঃখ-কষ্ট না দেখে আওয়ামী লীগ নেতারা মালয়েশিয়া, কানাডা, সিঙ্গাপুরের রঙিন জীবন দেখছেন। আওয়ামী লীগ সম্পূর্ণ দেউলিয়া হয়ে গেছে। আওয়ামী লীগের যারা রাষ্ট্র পরিচালনার দায়িত্বে থাকে তাদের দুর্নীতি ও লুটপাট দুর্ভিক্ষের অন্যতম কারণ।

বিধবা ভাতা বা দুস্থ ভাতার ১০ থেকে ২০ শতাংশ কেটে নেন আওয়ামী লীগ নেতারা জানিয়ে তিনি বলেন, ‘জাতির জন্য বোঝা হয়ে গেছে আওয়ামী লীগ। তাদের সরাতে না পারলে সবাই ডুবে যাবো। জনগণকে রক্ষা করতে দুর্বার আন্দোলনের মধ্যদিয়ে সরকারকে পদত্যাগে বাধ্য করতে হবে। শুরু হয়ে গেছে তাদের গণতান্ত্রিক আন্দোলনের বাধা দেয়া। মামলা দিয়ে বিএনপি নেতাদের আদালতে ব্যস্ত রাখে। সুপরিকল্পিতভাবে দেশের অর্জন নষ্ট করছে আওয়ামী লীগ। দুর্নীতিকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিয়েছেন তারা। এমন কোন খাত নেই সেখানে দুর্নীতি হয় না।’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, আওয়ামী লীগ অনেক পুরনো রাজনৈতিক দল, তাদের জনভিত্তি আছে, কিন্তু ক্ষমতার থাকার লালসায় এখন দেউলিয়া হয়ে গেছে।

নতুন করে গায়েবি মামলা শুরু করেছে জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘তারা ককটেল ফাটানোর কথা বললো যা কেউ শোনেননি, দেখেনি তা নিয়ে গায়েবি মামলা দিচ্ছে। পুরনো নাটক শুরু করেছে সরকার। একদিকে মামলা নিয়ে বিএনপিকে ব্যস্ত রাখার চেষ্টা, অন্যদিকে সরকার তার কাজ করে যেতে পারে। সরকার পতনের আন্দোলন ভিন্ন খাতে নিতেই আগুন সন্ত্রাস আর জঙ্গি নাটকের ধুয়া তুলছেন ক্ষমতাসীনরা। দেশে জঙ্গি ছিনতাই নাটক তৈরি করে জনগণের মূল দাবি ভিন্ন খাতে নিতে চায় সরকার।’

তিনি বলেন, দলীয় সরকার নয়, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে। সরকারকে পদত্যাগ করে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে।

নাগরিক ঐক্যের সভাপতি মাহমুদুর রহমান মান্নার সভাপতিত্বে সেমিনারে অন্যদের মধ্যে গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক বক্তব্য দেন।

ছবি

বিএনপি নেতা ইশরাকের গাড়িতে হামলার অভিযোগ

ছবি

চট্টগ্রামের পলোগ্রাউন্ড জনসমুদ্রে পরিণত

ছবি

প্রধানমন্ত্রীর জনসভা মাঠে আ.লীগ নেতার মৃত্যু

ছবি

কুমিল্লা দক্ষিণ আ.লীগের সম্মেলন বৃহস্পতিবার

ছবি

চট্টগ্রামের পলোগ্রাউন্ড মাঠে জমায়েত শুরু

ছবি

জরুরি সংবাদ সম্মেলন ডেকেছে বিএনপি

ছবি

প্রধানমন্ত্রীর জনসভা: মিছিল নিয়ে আসছেন নেতাকর্মীরা

ছবি

যুবদল সভাপতি সালাউদ্দিন টুকু আটক

আমার বিবেক বলে এই স্লোগানটা এভাবে না দেওয়া উচিত

ছবি

নয়াপল্টন নিয়েই উত্তেজনা

ছবি

তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচনে অংশ নেবে বিএনপি : ফখরুল

রাজশাহীর মানুষ বিএনপির গণসমাবেশ প্রত্যাখ্যান করেছে: লিটন

ছবি

"তত্ত্বাবধায়ক সরকারের রঙিন খোয়াব এ দেশে কখনো বাস্তবায়ন হবে না"

ছবি

নরসিংদীর মির্জারচর ইউপি চেয়ারম্যান যুবলীগ নেতা জাফর ইকবাল নিহত

দেশে এখন নিয়ন্ত্রিত গনতন্ত্র চলছে

ছবি

শেখ হাসিনার জন্য সর্বোচ্চ আত্মাহুতি দিতে প্রস্তুত যুবলীগ

ছবি

বিএনপি বিশৃঙ্খলা করতে চাচ্ছে, সেটি হতে দেবো না: তথ্যমন্ত্রী

ছবি

ময়মনসিংহে জেলা ও মহানগর আ.লীগের সম্মেলন শুরু

ছবি

নির্ধারিত সময়ের আগেই বিএনপির গণসমাবেশ শুরু

ছবি

গণসমাবেশ সফল হবে আশা, সবাইকে ধৈর্য ধরার আহ্বান

ছবি

কক্সবাজার জনসভায় উপস্থিত হতে পারে সাড়ে ৪ লাখ মানুষ

ছবি

ক্ষুব্ধ হয়ে মঞ্চ ছাড়লেন ছাত্রলীগের দায়িত্বপ্রাপ্ত ৪ নেতা

ছবি

এটাই কি ছাত্রলীগ, কোনো শৃঙ্খলা নেই : কাদের

ছবি

ছাত্রলীগের ঢাকা উত্তর-দক্ষিণের সভাপতি-সাধারণ সম্পাদক পদে প্রার্থী ৩০০

বিএনপি উসকানিমূলক কর্মকান্ড করলে তাৎক্ষণিক জবাব দেবে আ’লীগ : মেয়র লিটন

পুলিশের আরও ৩ মামলা, আসামি বিএনপি-জামাতের ১৯৭

ছবি

বিএনপি নেতারা পুলিশ প্রধানের সঙ্গে সাক্ষাৎ শেষে যা জানালেন

ছবি

পুলিশ সদর দপ্তরে বিএনপির প্রতিনিধি দল

ছবি

আইজিপির সঙ্গে দুপুরে বিএনপির বৈঠক

ছবি

নয়াপল্টনে অনড় বিএনপি, উদ্দেশ্য নিয়ে সন্দেহ আ’লীগের

ছবি

নয়াপল্টনেই সমাবেশ করবে বিএনপি : ফখরুল

ছবি

বিএনপি কেন সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে যেতে চায় না, প্রশ্ন কাদেরের

ছবি

ফরিদপুরে বিএনপির মঞ্চ ভেঙে হামলা, ভাঙচুর, ৩টি ককটেল বিস্ফোরণ, পুলিশের ফাঁকা গুলি, পুলিশসহ আহত ২০

ছবি

চেয়ারম্যান হিসেবে দায়িত্ব পালন করতে পারবেন না জি এম কাদের

ছবি

আজ থেকে ছাত্রলীগের মনোনয়ন ফরম বিতরণ শুরু

দলকে একসঙ্গে চালিয়ে নিতে একমত দেবর-ভাবি

tab

রাজনীতি

ঝামেলা না করে নয়াপল্টনে সমাবেশের অনুমতি দিন : ফখরুল

সংবাদ অনলাইন রিপোর্ট

বুধবার, ২৩ নভেম্বর ২০২২

বিএনপি নিয়ম মেনে সমাবেশের আবেদন করেছে জানিয়ে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর পুলিশের উদ্দেশ্যে বলেছেন, ‘নয়াপল্টনে সমাবেশ করার কথা বলা হয়েছে। তারা (পুলিশ) সমাবেশের স্থান দেয়নি এখনও। কোন ঝামেলা না করে সমাবেশের স্থানের অনুমতি দিন।’

বুধবার (২৩ নভেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবে অনুষ্ঠিত এক সেমিনারে এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল।

‘দেউলিয়াত্ব ঘোচাতে দুর্ভিক্ষের নাটক? দেশ কোন পথে’ শীর্ষক এ সেমিনারের আয়োজন করে নাগরিক ঐক্য।

আওয়ামী লীগ যখনই ক্ষমতায় আসে দুর্ভিক্ষ হয় মন্তব্য করে মির্জা ফখরুল বলেন, সাধারণ মানুষের দুঃখ-কষ্ট না দেখে আওয়ামী লীগ নেতারা মালয়েশিয়া, কানাডা, সিঙ্গাপুরের রঙিন জীবন দেখছেন। আওয়ামী লীগ সম্পূর্ণ দেউলিয়া হয়ে গেছে। আওয়ামী লীগের যারা রাষ্ট্র পরিচালনার দায়িত্বে থাকে তাদের দুর্নীতি ও লুটপাট দুর্ভিক্ষের অন্যতম কারণ।

বিধবা ভাতা বা দুস্থ ভাতার ১০ থেকে ২০ শতাংশ কেটে নেন আওয়ামী লীগ নেতারা জানিয়ে তিনি বলেন, ‘জাতির জন্য বোঝা হয়ে গেছে আওয়ামী লীগ। তাদের সরাতে না পারলে সবাই ডুবে যাবো। জনগণকে রক্ষা করতে দুর্বার আন্দোলনের মধ্যদিয়ে সরকারকে পদত্যাগে বাধ্য করতে হবে। শুরু হয়ে গেছে তাদের গণতান্ত্রিক আন্দোলনের বাধা দেয়া। মামলা দিয়ে বিএনপি নেতাদের আদালতে ব্যস্ত রাখে। সুপরিকল্পিতভাবে দেশের অর্জন নষ্ট করছে আওয়ামী লীগ। দুর্নীতিকে প্রাতিষ্ঠানিক রূপ দিয়েছেন তারা। এমন কোন খাত নেই সেখানে দুর্নীতি হয় না।’

বিএনপি মহাসচিব বলেন, আওয়ামী লীগ অনেক পুরনো রাজনৈতিক দল, তাদের জনভিত্তি আছে, কিন্তু ক্ষমতার থাকার লালসায় এখন দেউলিয়া হয়ে গেছে।

নতুন করে গায়েবি মামলা শুরু করেছে জানিয়ে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘তারা ককটেল ফাটানোর কথা বললো যা কেউ শোনেননি, দেখেনি তা নিয়ে গায়েবি মামলা দিচ্ছে। পুরনো নাটক শুরু করেছে সরকার। একদিকে মামলা নিয়ে বিএনপিকে ব্যস্ত রাখার চেষ্টা, অন্যদিকে সরকার তার কাজ করে যেতে পারে। সরকার পতনের আন্দোলন ভিন্ন খাতে নিতেই আগুন সন্ত্রাস আর জঙ্গি নাটকের ধুয়া তুলছেন ক্ষমতাসীনরা। দেশে জঙ্গি ছিনতাই নাটক তৈরি করে জনগণের মূল দাবি ভিন্ন খাতে নিতে চায় সরকার।’

তিনি বলেন, দলীয় সরকার নয়, তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে। সরকারকে পদত্যাগ করে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে।

নাগরিক ঐক্যের সভাপতি মাহমুদুর রহমান মান্নার সভাপতিত্বে সেমিনারে অন্যদের মধ্যে গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়কারী জোনায়েদ সাকি, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টির সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক বক্তব্য দেন।

back to top