alt

চিঠিপত্র

চিঠি : কলেজ বাস চাই

: শনিবার, ২৮ মে ২০২২

মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নন

উত্তরবঙ্গের প্রবেশদ্বার ঐতিহ্যবাহী সিরাজগঞ্জ জেলার একটি স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠান সরকারি আকবর আলী কলেজ। এটি সিরাজগঞ্জ জেলার মধ্যে অন্যতম একটি প্রতিষ্ঠান। সিরাজগঞ্জ হাটিকুমরুল চত্বর থেকে ১২ কিলোমিটার দক্ষিণে এই কলেজ অবস্থিত। ১৯৭০ সালে প্রতিষ্ঠার পর থেকেই কলেজটি শিক্ষার্থীদের উচ্চতর বিদ্যাপীঠ হিসেবে বেশ পরিচিত। কলেজটিতে বর্তমানে ইন্টারমিডিয়েট, ডিগ্রি, অনার্স শ্রেণিতে প্রায় ১০ হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী অধ্যায়ন করছে।

কলেজটি সিরাজগঞ্জ জেলার শিক্ষা ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদান রেখে আসছে। কিন্তু দুঃখের বিষয়, এই কলেজের নিজস্ব পরিবহন ব্যবস্থা নেই বলে অনেক দূরদূরান্ত থেকে শিক্ষার্থীদের ভোগান্তি শিকার করে আসা-যাওয়া করতে হয়। অনেক সময় দেখা যায়, পরিবহন শ্রমিকরা শিক্ষার্থীদের সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ করে থাকে, যা মোটেও স্বস্তিদায়ক নয়। আর ভাড়া নিয়ে বাগবিতন্ডা তো অছেই। এর বাইরে লোকাল পরিবহনে যাতায়াতের ফলে শিক্ষার্থীদের সময়ের অপচয় হয়।

তাই কলেজের মান উন্নত এবং শিক্ষার্থীদের যাতায়াতের সুবিধার জন্য নিজস্ব পরিবহন ব্যবস্থা চাই। এতে করে প্রতি বছর সিরাজগঞ্জ জেলার বিভিন্ন জায়গা থেকে মেধাবী শিক্ষার্থীরা ভর্তি হতে আগ্রহী হবে। এছাড়া কলেজের সুনাম, মান ও সৌন্দর্য বৃদ্ধি করার অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের নিজস্ব পরিবহন ব্যবস্থা থাকা। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে আকবর আলী কলেজের সর্বস্তরের শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে বিনীতভাবে অনুরোধ অন্তত দুটি বাস হলেও ব্যবস্থা করুন।

মনিরুল ইসলাম

শিক্ষার্থী, সরকারি আকবর আলী কলেজ।

চিঠি : বিশ্ববিদ্যালয় পর্যায়ে আমেরিকান স্টাডিজ কোর্স চাই

চিঠি : পদ্মা সেতু : সাহসী ভূমিকায় অনন্য অর্জন

চিঠি : সামাজিক প্রত্যাশার চাপ

চিঠি : দায়িত্বটা নিজেকেই নিতে হবে

চিঠি : খেলার মাঠ দিয়ে চলাচল বন্ধ হোক

চিঠি : ফুটবল খেলা নিয়ে আর নয় বিবাদ

চিঠি : ফুটপাতে মোটরসাইকেলের দৌরাত্ম্য

চিঠি : সড়ক দুর্ঘটনা প্রসঙ্গে

চিঠি : মেডিটেশনের ওপর ভ্যাট কেন

চিঠি : ফেক আইডি থেকে সাবধান

চিঠি : ফেসবুক প্রতারণা

চিঠি : আত্মহত্যা কোন সমাধান নয়

চিঠি : ব্যবস্থাপত্র নিয়ে টানাটানি বন্ধ হোক

চিঠি : পরিবারহীন শৈশব

চিঠি : তালা ঝুলানোর অপসংস্কৃতি বন্ধ হোক

চিঠি : টাকার দুর্দিন

চিঠি : চবির শাটলে সিট দখলের অপসংস্কৃতি

চিঠি : ট্রেনে কাটা পড়ে মৃত্যু

চিঠি : শিশুশ্রম বন্ধে সামাজিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে হবে

চিঠি : হল চাই

চিঠি : শিশুশ্রম প্রতিরোধ করা জরুরি

চিঠি : চাই নারীর স্বাধীনতা

চিঠি : অগ্নিদুর্ঘটনা প্রতিরোধে চাই সচেতনতা

চিঠি : পণ্য মজুদদারিদের নজরদারিতে রাখা হোক

চিঠি : ফায়ার সার্ভিসের আধুনিকায়ন চাই

চিঠি : ফেসবুক লাইভে সতর্কতা

চিঠি : ইভটিজিং প্রতিরোধ করতে হবে

চিঠি : জমিজমা সংক্রান্ত ভুয়া মামলা

চিঠি : পরিবেশ রক্ষা আইন ও বাস্তবতা

চিঠি : কলেজগুলো শিক্ষার্থীদের টাকা ফেরত দেবে কবে

চিঠি : আবারও শুরু হচ্ছে ব্রাজিল-আর্জেন্টিনা বাকযুদ্ধ

চিঠি : হলে খাবারের মান প্রসঙ্গে

চিঠি : অর্থনীতিতে অস্থিরতা

চিঠি : চালের দাম নিয়ন্ত্রণে আনুন

চিঠি : এক যুগেও হয়নি বড়নগর ইউনিয়ন

চিঠি : আবাসন সংকট নিরসনে নতুন ছাত্রী হল চাই

tab

চিঠিপত্র

চিঠি : কলেজ বাস চাই

মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নন

শনিবার, ২৮ মে ২০২২

উত্তরবঙ্গের প্রবেশদ্বার ঐতিহ্যবাহী সিরাজগঞ্জ জেলার একটি স্বনামধন্য প্রতিষ্ঠান সরকারি আকবর আলী কলেজ। এটি সিরাজগঞ্জ জেলার মধ্যে অন্যতম একটি প্রতিষ্ঠান। সিরাজগঞ্জ হাটিকুমরুল চত্বর থেকে ১২ কিলোমিটার দক্ষিণে এই কলেজ অবস্থিত। ১৯৭০ সালে প্রতিষ্ঠার পর থেকেই কলেজটি শিক্ষার্থীদের উচ্চতর বিদ্যাপীঠ হিসেবে বেশ পরিচিত। কলেজটিতে বর্তমানে ইন্টারমিডিয়েট, ডিগ্রি, অনার্স শ্রেণিতে প্রায় ১০ হাজারেরও বেশি শিক্ষার্থী অধ্যায়ন করছে।

কলেজটি সিরাজগঞ্জ জেলার শিক্ষা ক্ষেত্রে উল্লেখযোগ্য অবদান রেখে আসছে। কিন্তু দুঃখের বিষয়, এই কলেজের নিজস্ব পরিবহন ব্যবস্থা নেই বলে অনেক দূরদূরান্ত থেকে শিক্ষার্থীদের ভোগান্তি শিকার করে আসা-যাওয়া করতে হয়। অনেক সময় দেখা যায়, পরিবহন শ্রমিকরা শিক্ষার্থীদের সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণ করে থাকে, যা মোটেও স্বস্তিদায়ক নয়। আর ভাড়া নিয়ে বাগবিতন্ডা তো অছেই। এর বাইরে লোকাল পরিবহনে যাতায়াতের ফলে শিক্ষার্থীদের সময়ের অপচয় হয়।

তাই কলেজের মান উন্নত এবং শিক্ষার্থীদের যাতায়াতের সুবিধার জন্য নিজস্ব পরিবহন ব্যবস্থা চাই। এতে করে প্রতি বছর সিরাজগঞ্জ জেলার বিভিন্ন জায়গা থেকে মেধাবী শিক্ষার্থীরা ভর্তি হতে আগ্রহী হবে। এছাড়া কলেজের সুনাম, মান ও সৌন্দর্য বৃদ্ধি করার অন্যতম বৈশিষ্ট্য হলো শিক্ষক ও শিক্ষার্থীদের নিজস্ব পরিবহন ব্যবস্থা থাকা। এ বিষয়ে সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের কাছে আকবর আলী কলেজের সর্বস্তরের শিক্ষার্থীদের পক্ষ থেকে বিনীতভাবে অনুরোধ অন্তত দুটি বাস হলেও ব্যবস্থা করুন।

মনিরুল ইসলাম

শিক্ষার্থী, সরকারি আকবর আলী কলেজ।

back to top